নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

www.facebook.com/abdur.sharif

আবদুর রব শরীফ

বাধা বিঘ্ন না পেরিয়ে বড় হয়েছে কে কবে?

আবদুর রব শরীফ › বিস্তারিত পোস্টঃ

ধূমপানের বদলে দুধপান

৩১ শে মে, ২০১৮ রাত ৮:২৬

পৃথিবীতে প্রতি দশ জন মানুষের মৃত্যুর কারণের মধ্যে একজনের কারণ ধূমপান,
.
বিশ্বে ধূমপানের কারণে প্রায় ৬০ লক্ষ মানুষ মারা যায়!
.
ইয়ে মানে প্রতি ৬ সেকেন্ডে ১ জন মানুষের ধূমপানজনিত কারণে মৃত্যু হয়,
.
বাংলাদেশে প্রতি বছর ১ লক্ষ ৬২ হাজার মানুষ ধূমপানের কারণে মারা যায়
.
ফুসফুসের ক্যান্সার এবং ক্রনিক অবস্ট্রাকটিভ পালমোনারি আক্রান্ত প্রতি ১০ জন রোগীদের মধ্যে ৮ জনের কারণ ধূমপান,
.
পৃথিবীতে এখন সবচেয়ে বেশী মানুষ হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যায় তাদের প্রতি ৬ জনের মধ্যে ১ জনের মৃত্যুর কারণ ধূমপান,
.
প্রতি তিন জন ধূমপায়ী মানুষদের মধ্যে দুইজন ধূমপান জনিত কারণে মারা যায়,
.
বেপারগুলো এতোটা ভয়ঙ্কর যে ফ্রান্সে এক বছরে দশ লাখ মানুষ ধূমপান ছেড়েছে,
.
অস্ট্রেলিয়ায় পুরুষ ধূমপায়ীর হার ২৫ শতাংশ থেকে কমে ১৪ শতাংশ এবং নারী ধূমপায়ীর হার ২৩ শতাংশ থেকে কমে ১০ শতাংশে নেমে এসেছে,
.
ব্রাজিলে পুরুষ ধূমপায়ীর হার ২৯ শতাংশ থেকে কমে ১২ শতাংশ এবং নারী ধূমপায়ীর হার ১৯ শতাংশ থেকে কমে ৮ শতাংশে নেমে এসেছে,
.
যুক্তরাষ্ট্রে পূর্বের তুলনায় প্রায় ৩০ লাখ মানুষ ধূমপান ছেড়েছে আর একটি সিন্ধান্তের কারণে আমেরিকায় ক্যান্সারে মৃত্যুর হার কমেছে ২৬ শতাংশ!
.
প্রতিবেশী দেশ ভারতে তামাক সেবনকারী কমেছে প্রায় ৮০ লক্ষ তবে মহিলাদের মধ্যে ধূমপান বৃদ্ধি পাচ্ছে,
.
ইউরোপেও ধূমপান কমলেও নতুন করে গাঁজায় টান দেওয়ার নেশা বেড়েছে,
.
ব্রিটিশরা বাঙ্গালীদের সিগারেট শিখায়ে নিজেদের ধূমপায়ীদের সংখ্যা কমে অর্ধেকে নেমে এসেছে,
.
অথচ বাংলাদেশে সম্প্রতি ধূমপায়ী কমা তো দূরে কথা তা ৩৮ শতাংশ থেকে বাড়ছে!
.
কিন্তু ২০০০ সালে বাংলাদেশে ধূমপায়ীর হার ছিলো ৬৪ শতাংশ তা কমে ২০১৫ সালে প্রায় ৩৮ শতাংশে নেমে এসেছিলো
.
প্রতিটি দেশে বড়লোকদের মধ্যে গরীবদের ধূমপানের প্রবণতা বেশী,
.
বাংলাদেশে গরীবদের মধ্যে প্রায় ৭১ শতাংশ মানুষ ধূমপান আসক্ত হলেও তা বড়লোকদের মধ্যে সেই তুলনায় ৩৬ শতাংশ,
.
ওরা এতো হতদরিদ্র যে ছোট খাট কোন অসুখ হলেও চিকিৎসা করানোর ক্ষমতা পর্যন্ত নেই কিন্তু ক্যান্সারের মতো অসুখ হলে বিনা চিকিৎসায় ধুকে ধুকে মরা ছাড়াও তাদের গতি নেই!
.
উন্নত দেশগুলোতে বর্তমানে ধূমপানের হার কমলেও বাংলাদেশের মতো দেশগুলোতে ধূমপানের হার কমছে না
.
শুধু তা না আপনি যদি ধূমপান না ও করে থাকেন তবুও ধূমপায়ীর পাশে থাকলে আপনার হৃদরোগ এবং ফুসফুসের ক্যান্সার হওয়ার সম্ভবনা যারা ধূমপায়ীদের এড়িয়ে চলে তাদের থেকে ত্রিশগুণ বেশী,
.
গত বছরে সবচেয়ে বেশী ধূমপায়ী দেশের মধ্যে আমাদের নামও ছিলো!
.
তাই নতুন স্লোগান,
"আসেন ধূমপান ছেড়ে দিয়ে সে টাকা দিয়ে 'দুধপান' করি"

মন্তব্য ৭ টি রেটিং +১/-০

মন্তব্য (৭) মন্তব্য লিখুন

১| ৩১ শে মে, ২০১৮ রাত ৮:৩৩

ব্লগার_প্রান্ত বলেছেন: যারা প্রকাশ্যে সিগারেট খায় তাদের আইনের আওতায় আনা গেলে এ সমস্যা কমতে পারে। স্মোকার জোন বানাতে হবে, যেখানে পাবলিক স্মোক করে ভাতের উপর চাপ কমাবে।

২| ৩১ শে মে, ২০১৮ রাত ৮:৩৫

অনুতপ্ত হৃদয় বলেছেন: যে হারে প্রকাশ্য ধূমপায়ী বাড়তেছে, তা কি সম্ভব?

৩| ৩১ শে মে, ২০১৮ রাত ৮:৪৮

বিএম বরকতউল্লাহ বলেছেন: জনসচেতনতামূলক পোষ্ট।
আশা করি আমার মতো উপকৃত হবেন সবাই।
শুভেচ্ছা।

৪| ৩১ শে মে, ২০১৮ রাত ৯:০৬

করুণাধারা বলেছেন: তথ্যসমৃদ্ধ, সচেতনতামূলক পোস্ট। ভালো লাগলো।

৫| ৩১ শে মে, ২০১৮ রাত ৯:২৩

প্রামানিক বলেছেন: এতসব জেনেও কেউ ধুমপান ছাড়তে রাজী নয়। ভালো লাগল।

৬| ৩১ শে মে, ২০১৮ রাত ১১:২১

অর্থনীতিবিদ বলেছেন: স্লোগানটা ভালো। এভাবে ইতিবাচক স্লোগান দিয়ে মানুষকে ধূমপান থেকে বিরত রাখার চেষ্টা করতে হবে। নিয়মিত চেষ্টা করতে থাকলে সফলতা অবশ্যই আসবে।

৭| ০১ লা জুন, ২০১৮ দুপুর ১:৫৭

রাজীব নুর বলেছেন: সিগারেট তো খাই।
কিন্তু আপনার পোষ্ট পড়ে ভয় ঢুকে গেল মনে।
ভয় কমানোর জন্য একটা ধরালাম।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.