নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

আমি ময়মনসিংহ জেলা স্কুল থেকে ১৯৭৭ সালে এস.এস.সি এবং আনন্দ মোহন কলেজ থেকে ১৯৭৯ সালে এইচ.এস.সি পাশ করেছি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ১৯৮৪ সালে এলএল.বি (সম্মান) এবং ১৯৮৫ সালে একই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এলএল.এম পাশ করি।

মোহাম্মদ আলী আকন্দ

১৯৮৭ সালে আইনজীবী হিসাবে ময়মনসিংহ বারে এবং পরে ঢাকা বারে যোগদান করি। ১৯৯২ সালে সুপ্রিম কোর্ট বারে যোগ দেই।

মোহাম্মদ আলী আকন্দ › বিস্তারিত পোস্টঃ

কাসেমের রঙিন ছায়া জেনারেল বিপিন রাওয়াতের চোখে খেলা করে

২৭ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ রাত ৮:৩৮

ইন্ডিয়ার বর্তমান সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত নয়াদিল্লীতে ‘নর্থ ইস্ট রিজিয়ন অব ইন্ডিয়া- ব্রিজিং গ্যাপ অ্যান্ড সিকিউরিং বর্ডার্স’ শীর্ষক এক সেমিনারে বলেছেন, "আসামসহ উত্তর-পূর্ব ইন্ডিয়া পাকিস্তান দখলে (taken over) নিতে চায়। তাই বাংলাদেশ থেকে মুসলমানদের নিয়ে গিয়ে এরা আসামের জেলাগুলো ভরে ফেলছে।" আরো অনেক কথা।
বাংলাদেশর প্রথম আলো সহ প্রায় সব পত্রিকা এবং ইন্ডিয়ার আনন্দ বাজার সহ অনেক বাংলা পত্রিকায় এই নিয়ে প্রতিদিনই অনেক বিশ্লেষণ, আলোচনা-সমালোচনা চাপা হচ্ছে। অনেক প্রশ্ন --
১. ইন্ডিয়ার বর্তমান সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত কি পাগল?
২. পাকিস্তান কি ভাবে আসামসহ উত্তর-পূর্ব ইন্ডিয়া দখলে নিবে?
৩. বাংলাদেশ সরকার কি পাকিস্তানের নিয়ন্ত্রণে? ইত্যাদি আরো প্রশ্ন।

ইন্ডিয়ার বর্তমান সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত পাগল না। অনেক কথা সরাসরি বলা যায় না। তাই তিনি তার ব্যক্তিতায় পাকিস্তান শব্দটা রূপক অর্থে ব্যবহার করেছেন।

বিপিন রাওয়াতের মনে আছে মোহাম্মদ বিন কাশিম, জহিরুদ্দিন বাবর, ইখতিয়ার উদ্দিন মোহাম্মদ বখতিয়ার খিলজির কথা। এদের কথা বিপিন রাওয়াতরা কোন দিনই ভুলতে পারবে না। তাই পাকিস্তান নামের আড়ালে ওঁদের কথা তিনি বলতে চেয়েছেন এবং সংশ্লিষ্টদের সতর্ক করেছেন।

সূত্র:
সমালোচনা বাংলাদেশে, ভারতে বিতর্কের ঝড়-প্রথম আলো
ভারতীয় গণমাধ্যমে সেনাপ্রধানের ব্যাপক সমালোচনা-নয়া দিগন্ত
সীমা লঙ্ঘন করেছেন ভারতীয় সেনাপ্রধান-নয়া দিগন্ত
Virtue of reticence: on Bipin Rawat’s comment about illegal immigration in Northeast--The Hindu

মন্তব্য ১৩ টি রেটিং +০/-০

মন্তব্য (১৩) মন্তব্য লিখুন

১| ২৭ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ রাত ৯:০৫

পাঠকের প্রতিক্রিয়া ! বলেছেন: ভারত, বাংলাদেশকে তাদের অঙ্গরাজ্য করবে না। নিশ্চত থাকুন। তবে ভূ-রাজনৈতিক কারনে দেশের উপর একটা প্রচ্ছন্ন প্রভাব রাখছে এবং রাখবে।।

২৭ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ রাত ৯:২৩

মোহাম্মদ আলী আকন্দ বলেছেন:


আপনার এই মন্তব্য আলোচ্য লেখার সঙ্গে প্রাসঙ্গিক নয়।
তবুও মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ।
কাসেমের রঙিন ছায়া জেনারেল বিপিন রাওয়াতের চোখে যখন খেলা করে, তখন ইন্ডিয়া কি ভাবে বাংলাদেশকে তাদের অঙ্গরাজ্য করবে?
সে তো মোহাম্মদ বিন কাশিম, জহিরুদ্দিন মোহাম্মদ বাবর, ইখতিয়ার উদ্দিন মোহাম্মদ বখতিয়ার খিলজির ভয়ই মন থেকে দূর করতে পারে নাই।

২| ২৭ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ রাত ৯:২৪

আবু তালেব শেখ বলেছেন: আপনার ধারনার সাথে একমত হতে পারলাম না

২৭ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ রাত ৯:৪৯

মোহাম্মদ আলী আকন্দ বলেছেন:


ধন্যবাদ আপনার মন্তব্যের জন্য।
সবার ধারণা যদি একই রকম হত তা হলে এত আলোচনা হত না।
আপনি ভিন্ন ধারণা পোষণ করতে পারেন, এতে আমার কোন আপত্তি নাই।
কেন জেনারেল বিপিন রাওয়াত এই ধরণের মন্তব্য করেছেন? আপনি যদি আপনার ধারণা বলেন তা হলে ভালো হয়।
আমারা আপনার ধারণা থেকে উপকৃত হতে পারি।
আপনি ইন্টারনেটে সার্চ দিলে জেনারেল বিপিন রাওয়াতের এই মন্তব্যের উপর অনেক আলোচনা-বিশ্লেষণ পাবেন।
আমি কয়েকটা লিংক দিয়েছি, পড়ে দেখতে পারেন।

৩| ২৭ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ রাত ৯:২৭

আবু তালেব শেখ বলেছেন: যুগে যুগে সবাই সাম্রাজ্য বিস্তারে দেশ দখল করতো সবার জানা। তখনকার দিনের সাথে সাম্প্রতিক সময়ে ঢের তফাত।

২৭ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ রাত ৯:৫৫

মোহাম্মদ আলী আকন্দ বলেছেন:



আমি আপনার এই মন্তব্যের সাথে শতভাগ একমত।
যুগে যুগে সবাই সাম্রাজ্য বিস্তারে দেশ দখল করতো--আমি একমত।
তখনকার দিনের সাথে সাম্প্রতিক সময়ে ঢের তফাত--আমি একমত।
কিন্তু ইন্ডিয়ার সেনাপ্রধান জেনারেল বিপিন রাওয়াত যে বলল, "আসামসহ উত্তর-পূর্ব ইন্ডিয়া পাকিস্তান দখলে (taken over) নিতে চায়। তাই বাংলাদেশ থেকে মুসলমানদের নিয়ে গিয়ে এরা আসামের জেলাগুলো ভরে ফেলছে।" এই কথার অর্থ বা তাৎপর্য কি?

৪| ২৮ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ভোর ৪:২৬

রিফাত হোসেন বলেছেন: পোস্ট এর বিষয়ে আপাতত কিছু বলার নাই। আপনি কেমন আছেন? আপনার অনুবাদ গুলো পড়তে ভালই লাগে। আপনার মঙ্গল কামনা করি।

২৮ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৪৩

মোহাম্মদ আলী আকন্দ বলেছেন:



পোষ্টের ব্যাপারে আপনার মতামত দিলে ভাল হত।
আমি যুক্তিসঙ্গত ভিন্ন মতকে শ্রদ্ধা করি।
আমি কখনও মনে করি না, আমার মতই চূড়ান্ত।
আমার বুঝার ভুল থাকতে পারে, পক্ষে বিপক্ষে অনেক যুক্তি থাকতে পারে।

আপনি আমার ব্যক্তিগত ব্যাপারে জানতে চেয়েছেন। আমি ভাল আছি।

আমার অনুবাদগুলি ভাল লাগে জেনে ভাল লাগল। আসলে সেই অর্থে আমার লেখাগুলি অনুবাদ না। আমার লেখার স্টাইলটা হচ্ছে, আমি যে বিষয়ে লেখতে চাই, সে বিষয়ে ইন্টারনেটে একটা সার্চ দেই। তারপর লক্ষ লক্ষ ওয়েবসাইট থেকে বাছাই করে ৮/১০টা লেখা পড়ি। বিষয়টা জটিল হলে পক্ষে-বিপক্ষে অনেক বেশি পড়তে হয়। তারপরে পয়েন্টগুলি সাজিয়ে নিজের ভাষায় লেখি। ফলে ওই লেখাগুলি কিছু প্রভাব আমার লেখার উপর থাকে। কিন্তু এইগুলি ঠিক অনুবাদ না।

শেষে আমার মঙ্গোল কামনার জন্য ধন্যবাদ।

৫| ২৮ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ সকাল ১০:২৬

রাজীব নুর বলেছেন: ভালো কোনো বিষয় নিয়ে লিখুন।

২৮ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৫২

মোহাম্মদ আলী আকন্দ বলেছেন:



আপনার উপদেশের জন্য অনেক অনেক ধন্যবাদ। আরো ধন্যবাদ কষ্ট করে লেখাটা পড়েছেন।

যে বিষয়ে আমি লিখেছি, সেই বিষয়টা আমি শুধু ভালই মনে করিনি বরং অনেক গুরুত্বপূর্ণ মনে করেছি।

এখন ব্যাপার হচ্ছে একজনের কাছে যেটা ভাল বিষয়, সেটা অন্যের কাছে ভাল নাও লাগতে পারে।

অনেকের কাছে বিষয়টা ভাল লাগবে, অনেকের কাছে লাগবে না।

শুধু এই বিষয়ই না, যে কোন বিষয়ই।

এখন সমস্যা হচ্ছে সবার কাছে ভাল লাগবে এমন বিষয় আমার জান নাই।

৬| ২৮ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ দুপুর ১:৪৭

টারজান০০০০৭ বলেছেন: কাশিম , বাবর, খিলজির সপ্নদোষ বিপিনের হয় নাই। সে ভালো করিয়াই জানে কর্মীদের ফেলাইয়া পালাইয়া যাওয়া রাজনীতিবিদদের মধ্যে কাসিম , বাবর খিলজির জন্ম আর হইবে না ! বরং, বাংলাদেশ যেন চীনের দিকে ঝুঁকিয়া না যায়, সেই লক্ষ্যে সতর্ক করা হইল যে বেশি বাড়াবাড়ি করিলে বাংলাদেশে আসামের ৩০ লক্ষ মুসলমানকে রোহিঙ্গাদের মতন বাংলাদেশী ট্যাগ লাগাইয়া বাংলাদেশে পাঠাইয়া দেওয়া হইবে ! ইহাতে কয়েক পাখি মারা হইল। বাংলাদেশকে সতর্ক করা হইল, ভারতের বগলের তলা হইতে বাহির হইওনা , ভারতের মুসলমানদেরও মেসেজ দেওয়া গেলো যে তোমরা সংগঠিত হইতে পারবানা, সংগঠিত হইলে হিন্দুত্ববাদীদের টার্গেটে পরিণত হইবে,বাংলাদেশী বা পাকিস্তানি ট্যাগ লাগাইয়া শক্তিহীন করিয়া দেওয়া হইবে, দেশ হইতে বহিষ্কারের ঝুঁকি থাকিবে। হিন্দুত্ববাদীদেরও বিচি নাড়িয়া সজাগ করিয়া দেওয়া হইল যে মুসলমান কিন্তু শক্তি অর্জন করিতেছে ! খাঁড়া উচাইয়া রাখ, নামাইয়ো না !

২৮ শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ রাত ৮:১০

মোহাম্মদ আলী আকন্দ বলেছেন:



চমৎকার মন্তব্যের জন্য অনেক অনেক ধন্যবাদ।
উচ্চ পর্যায়ের নীতিনির্ধারকের একটা কথার অনেক অর্থ প্রকাশ করে।
আমি শুধু একটা অর্থ নিয়ে লিখেছি।
আপনার লেখার স্টাইল অনেক শক্তিশালী বলে, অল্প কথায় প্রায় সবগুলি অর্থই প্রকাশ করেছেন।
আপনি জেনারেল বিপিন রাওয়াতের কথার ৮টা অর্থ প্রকাশ করেছেন।

আপনার শেষের দুটা বাক্যেই কাসেমের রঙিন ছায়া জেনারেল বিপিন রাওয়াতের চোখে খেলা করে।

৭| ১৩ ই এপ্রিল, ২০১৮ ভোর ৫:১৫

রিফাত হোসেন বলেছেন: আপনার আর পোস্ট দেখছিনা। ব্যস্ত আছেন মনে হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.