নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

পাঠক।

জুনায়েদ বি রাহমান

আমার ভিতর বাস করে এক অস্থির বেনামি বাউণ্ডুলে পাখি; যার কাঙ্ক্ষিত কোনো গন্তব্য নেই।

জুনায়েদ বি রাহমান › বিস্তারিত পোস্টঃ

চরিত্রহীন বিশেষণ\'টি কি স্রেফ নারীদের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য!

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ ভোর ৪:৫২




আমাদের প্রগতিশীল নারীবাদী আধুনিক সমাজকে সর্বদা “যৌন ক্রিয়াকলাপকে” চরিত্রের মানদণ্ড হিসেবে গণ্য করার বিরুদ্ধে বক্তব্য দিতে দেখা যায়। তাদের লজিক, পরস্পরের সম্মতিক্রমে দুজন মানুষ ফিজিক্যাল রিলেশনশিপে গেলে ইহা অন্যায়ের পর্যায়ে পড়বে না। তাদের বক্তব্যের সাথে আমিও সম্পূর্ণ সহমত। হ্যা, যৌন ক্রিয়াকলাপের ওপর ভিত্তি করে কাউকে চরিত্রহীন বা চরিত্রবান ট্যাগ দেওয়াটা যথাযথ নয়। তাহলে চরিত্র কি?! বা চরিত্র বিচারব্যাখ্যার মানদণ্ড কি?!

“চরিত্র” একজন মানুষের চিন্তাভাবনা, কর্মকাণ্ড, আচার ব্যবহার ইত্যাদির সম্মিলিত রূপ। সুতরাং যার চিন্তাভাবনা, কর্মকাণ্ড, আচার, আচরণ ভালো সে
“চরিত্রবান” এবং যার খারাপ সে “চরিত্রহীন”।
এখন কোনো প্রেমিক বা স্বামী যদি অন্যকোন মেয়ের সম্মতিক্রমে যৌনসম্পর্কে জড়ায় এবং তার প্রেমিকা বা স্ত্রীর কাছে অস্বীকার করে তাহলে সে মিথ্যে বললো। যেহেতু মিথ্যে বলা খারাপ। সেহেতু মিথ্যুককে আমরা চরিত্রহীন বলতে পারি। ঠিক তেমনি চোর, ডাকাত, দুর্নীতিবাজ, বাটপার, চাটুকারসহ যেকোনো খারাপ ব্যক্তিকে চরিত্রহীন বলতে পারি।

সম্প্রতি ৭১টিভির একটা অনুষ্ঠানে ব্যারিস্টার মইনুল হোসেন এক নারী সাংবাদিককে চরিত্রহীন বলে মহাবিপাকে পড়েছেন। এবং শেষপর্যন্ত বিভিন্নমহলের ৫-৭টি মামলা খেয়ে গতরাতে গ্রেফতার হয়েছেন। যদিও গ্রেফতারের পূর্বে মিডিয়ায় তিনি কথিত ঐ নারীকে চরিত্রহীন বলার কারণ খোলাসা করেছিলেন। মাসুদা ভাট্টির প্রশ্ন করার ধরন তার কাছে সরকারপক্ষের দালালী মনে হতেই পারে। এটা নিয়ে আমাদের নারীবাদী সাংবাদিক, বুদ্ধিজীবী সুশীল মহলের সাম্প্রতিক কর্মকাণ্ড অতিরিক্ত বাড়াবাড়ি এবং নারীবাদী চেতনার সাথে সাংঘর্ষিক বলেই মনে হচ্ছে। তারা বলছেন, চরিত্রহীন বলে নারীজাতিকে আর দমিয়ে রাখা যাবেনা। তাহলে চরিত্রহীন বলতে কি তারা এখনো সেই অবাধ যৌনাচারই বুঝেন?! এই বিশেষণ'টি কি স্রেফ মহিলাদের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য?!


মন্তব্য ৪৫ টি রেটিং +২/-০

মন্তব্য (৪৫) মন্তব্য লিখুন

১| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ ভোর ৫:২৮

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: চাঁদগাজী@ আন্তরিক দুঃখিত। লাইক দিতে গিয়ে আপনার কমেন্ট রিমুভ হয়ে গেছে।

২| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ ভোর ৫:৩১

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: মইনুলের কথায়, যুক্তি ছিলো। তিনি বলেছেন, মাসুদা ভাট্টিকে তিনি চেনেন না। প্রশ্ন শুনে তার মনে হয়েছে - ভাট্টির সাংবাদিকতার চরিত্র নেই। তাই তিনি চরিত্রহীন বলেছেন।

৩| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ ভোর ৬:৩৩

চাঁদগাজী বলেছেন:



মইনুল হোসেন ঢাকার দুষ্ট এলিট; তবে, সিভিল কারণে তাকে গ্রেফতার করায়, আমাদের কোর্টকে বেকুবদের টংঘর বলা সম্ভব।

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ১১:৪৪

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: এসব কার্যক্রম বিচারবিভাগকে প্রশ্নবিদ্ধ করে।

এই ব্যক্তিও এখন জাতীয় নেতা।

৪| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ ভোর ৬:৪৩

বিচার মানি তালগাছ আমার বলেছেন: বয়স্ক মানুষ। রাগের মাথায় বলে ফেলেছিলেন। পরে দুঃখ প্রকাশও করেছেন। কিন্তু ব্যবসার মূলধন পেলে যে কোন ব্যবসায়ী ব্যবসাকে বাড়াতে চাইবে সেটাই স্বাভাবিক...

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ১১:৪৫

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন:
উনি সরকারের ওপরে চরম বিরক্ত। আগের অনেক টকশো'তে ও দেখেছি। যাহোক, উনার এহেন কথাবার্তার প্রতিবাদ করা উচিত। মাসুদা ভাট্টি করেছেন। এতে সবার সমর্থন পর্যন্ত ঠিকাছে।

কিন্তু এটা নিয়ে তাদের কথিত সাংবাদিক মহলের বাড়াবাড়ি। মুন্নিসাহা কর্তৃক ঐক্যফ্রন্টকে থ্রেট করে বক্তব্য দেওয়া। আওয়ামীলীগের একাধিক মামলা, গ্রেফতার এসব অতিরিক্ত বাড়াবাড়ি মনে হচ্ছে।

৫| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৮:০০

রাজীব নুর বলেছেন: অতি তুচ্ছ বিষয় নিয়ে লাফালাফি আমার পছন্দ না।
আরে ভাই------- দেশে তো সমস্যার অভাব নাই। সেগুলো নিয়ে মাথা ঘামান প্লীজ।

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ১১:৪৮

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: রাজীব ভাই, দেশের সমস্যা নিয়ে আমাদের চাইতে বেশি ভাবা উচিত রাজনীতিবিদদের। কিন্তু রাজনীতিবিদদের অবস্থা দেখুন।

আমার তো মনে হয় দেশের সবচেয়ে বড় সমস্যা এইসব নোংরা রাজনীতি। তাই আমাদের প্রত্যেকের রাজনীতি নিয়ে ভাবা উচিত।
এই মইনুল হোসেনই এখন আমাদের রাজনীতিবিদ; এটা অস্বীকার করার উপায় নেই।

৬| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৮:০৮

হাসান কালবৈশাখী বলেছেন:
মাসুদা ভাট্টির প্রশ্নকরার ধরন সরকারপক্ষের দালালী ভাবার কারন নেই।

২০০৪ থেকে মইনুল নিয়মিত শিবির কাউন্সিলে প্রধান অতিথি হোতো। একজন সুশীল দাবি করা একজনকে কেন একটি বিতর্কিত ফ্যাসিস্ট দলের প্রধান অতিথি?
এর কারণ জিগ্যেস করা অবস্য কর্তব্য।

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ১১:৫০

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: সহমত। মইনুল হোসেনকে সেটা জিজ্ঞেস করা যেতেই পারে। সাংবাদিক'রা এমন প্রশ্ন যেকোনো কাউকে করতেই পারে।
আমি সরকার দল ও বিরোধীদলের রাজনীতিবিদদের কথা বলছি। তারা বিরোধী পক্ষে থাকলে মিডিয়াকে দালাল মনে করেন। আর এটা অস্বাভাবিক নয়, কারণ আমাদের মিডিয়া সবসময় ক্ষমতাসীনদলের দালালী করে।

৭| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৮:৫৫

ঢাবিয়ান বলেছেন: মুল কিচ্ছা হইল -
''মুরিদে ভরপুর পীরের মাজারে ক্ষ্যামটা নাচের আবির্ভাব আমাদের জন্যে নতুন কিছু নয়। এ আচার আগেও ছিল। তবে ইদানিং এ সংস্কৃতি মহামারীর মত চেপে বসেছে মুরীদানের মগজে। 'আল্লাহু এলহু' এ জাতীয় জপ দিয়ে শুরু। খোদ পীর সন্মুখ হতে নেত্রীত্ব দেন এ অর্কেস্ট্রার। সাথে হাতের ভেল্কিবাজী আর আমু দরিয়ার উন্মুক্ত পকেট একাকার হয়ে সেবা করে যায় লালসালু বাণিজ্যের। অবস্থাদৃষ্টে মন হচ্ছে গোটা বাংলাদেশ এখন একটা মাজার। চেতনার খাদেম হয়ে শেখ হাসিনা খোদ নিজ পিতা শেখ মুজিবকে বানিয়েছেন জৌলুসে শাহেনশাহ, এলাহি'এ একাব্বর, শাহ শেখ মখদুমে সৈয়দ, গোপালগঞ্জীয় জিন্দা পীর। এবং ১৬ কোটি মানুষকে এই মাজারের মুরীদান বানাতে প্রচার করছেন...'এবং বল শেখ মুজিব এক এবং শেখ হাসিনা তার প্রেরিত পুরুষ।' ওলাউডা বিবির মুরিদানের খাতায় যারা নাম লেখাতে ব্যর্থ হচ্ছেন তাদের বুকেই বিদ্ধ হচ্ছ গোপালগঞ্জীয় পীরের অদৃশ্য তীর। অনেকটা হিন্দি সিরিয়াল মহাভারতের কায়দায়। ওলাউডা বিবি এখন জিকির জপের চূড়ান্ত পর্যায়ে আছেন। হুঁশ এখন লাশ হয়ে শুয়ে আছে লাল সালুর নীচে। প্রশ্ন আসবে তবে কি তিনি নির্বাচন নামক প্রসব বেদনার নীল বীষে দংশিত হচ্ছন?

গলাধাক্কা খাওয়া প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমারের একটা মন্তব্য আমরা বিবেচেনায় আনতে ব্যর্থ হচ্ছি। এক ইন্টারভিউতে তিনি বলেছেন, ... সাগর রুনি হত্যাকান্ডের সবকিছু উনি জানেন। অনেকে আমাকে লা হাওলা অলা ক্যুয়াতা পড়তে বলবেন হয়ত। পড়তে আপত্তি নেই। বরং না পড়াটাই হবে অস্বাভাবিক। তবে যেহেতু কথাটা প্রধান বিচারপতির মুখ হতে বেরিয়েছে তাই চাইলেও দোয়া দরূদ পড়ে সন্দেহটা দূর করতে পারছিনা। এমন কি জানেন তিনি যা মুখে আনতে একশ বার ওয়াসতাগফেরুল্লা পড়তে হবে? এমন নারকীয় হত্যাকান্ডের টিকিটা পর্যন্ত ছুঁতে পারলনা বাংলাদেশের পুলিশ এমন তথ্য বিশ্বাস করতে আমকে দশ ছিলিম গঞ্জিকা সেবন করতে হবে। সমস্যার গোড়া বোধহয় এখানেই। নির্বাচনে হেরে গেলে মাজার চক্রের এই গড ফাদারের ফাঁসিতে ঝোলার সম্ভাবনা উঁকি দিবে। সামনে আসবে বিডআর ম্যাসাকার। তাই নির্বাচনে তিনি হারতে চাইছেন না। যেতে চাইছেন না কাদের মোল্লা আর নিজামীদের কুপে। মইনুল হোসেনের গ্রেপ্তারে তাই মোটেও অবাক হইনি। আরও অনেকে হবেন। খেলার মাঠে ওয়াকওভার পাওয়ার জন্যে সব খেলোয়াড়কে তিনি আতুর-ভেঙ্গুর বানাবেন। তারপর দল নিয়ে মাঠে হাজির হয়ে রেফারীকে বলবেন...ওরা তো আসেনি...বিজয়ের ৩ পয়েন্ট এখন আমার।''
-ওয়াচডগ (ফেসবুক থেকে সংগৃহিত)

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ১১:৫৮

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: মহাজোট আর চারদলীয় জোট সরকারের মধ্যে খুব একটা পার্থক্য নেই। ১৯-২০।

বর্তমান সরকার সত্যিকার অর্থে দেশপ্রেমিক হলে বিচারবিভাগের স্বাধীনতা, নিরপেক্ষতা নিশ্চিত করতো। তারা সেটা করেনি। হয়তো, নিজেদের অপকর্ম বেরিয়ে আসবে এবং নিজেরা ফেঁসে যাবে এই ভয় থেকে করেনি।
বাংলাদেশের প্রায় প্রতিটি বিচার ২-৩ বার হয়। পিলিখানা, ২১ আগস্ট, খালেদার সহ অনেকবিচার আবারও হওয়ার সম্ভাবনা আছে। বিচারবিভাগ স্বাধীন না হলে এসব বন্ধ হবে না। আদালতের রায়ে জনগণের সংশয় থেকে যাবে।

৮| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৯:০৮

পলাশবাবা বলেছেন: মানে কি দাড়ালো ? পরকিয়া চরিত্রহীনতা না ? পরকিয়া করে "মিথ্যা" বলাটা চরিত্রহীনতা ?

জুনায়েদ বি রাহমান আপনি কোন মাদক নেন।

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ১২:০০

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: পরকীয়া বলতে আপনি কি বুঝেন? দুনিয়ায় এমন অনেক ঘটনাও মিডিয়ায়, মুভিতে ওঠে আসে। স্বামীকে জানিয়ে স্ত্রী অন্যের বিছানা সঙ্গী হচ্ছে। তদ্রূপ স্বামীও। এটা নিশ্চয়ইই পরকীয়ার পর্যায়ে পড়ে না।


আমি নিয়মিত কোনো মদক বা মদকজাতীয় দ্রব্যে অসক্ত নই। তবে হ্যা, মাঝেমধ্যে ব্রাণ্ডি দুএক প্যাগ হয়। সিগারেটে হালকা আসক্তি আছে।

আপনি কি সবসময় ঘোরের মধ্যে থাকেন?

৯| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৯:২৩

সাগর শরীফ বলেছেন: বিষয়টা হচ্ছে এযুগের বেগম রোকেয়া, সুফিয়া কামালেরা যখন একত্রিত হয়ে মঈনুলের বিরুদ্ধে নেমেছেন, মঈনুল যাবে কোথায় ?

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ১২:০২

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: একমাত্র তাসলিমা নাসরিন ছাড়া এযুগের এইসব মহিলাদের কেউ মনে রাখবে না। এদের কর্মকাণ্ড রোকেয়াদের দ্বারে কাছেও নেই।

তাসলিমা নিজের অবস্থানে এখনো প্রায় অটল আছে। বাকিদের অবস্থান এবং আদর্শ প্রশ্নবিদ্ধ।

১০| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৯:৫৭

সাইন বোর্ড বলেছেন: স্লোগান হবে, মাসুদা ভাট্রির চরিত্র ফুলের মতো পবিত্র !

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ১২:০৪

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: মাসুদা ভাট্টি সম্পর্কে সবাই জানলো। তিনিও সেলিব্রিটি হয়ে গেলেন। মজার ব্যাপার হলো, ২০০৬-০০৭তে এই ব্লগেও উনি কিছু লিখা প্রকাশ করেছেন।

১১| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ১০:৩৫

নীল আকাশ বলেছেন: সাইন বোর্ড বলেছেন: স্লোগান হবে, মাসুদা ভাট্রির চরিত্র ফুলের মতো পবিত্র ! - আজকের দিনে এটাই হোক সবার মাতম!

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ১২:০৮

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: ৮-১০ দিন ধরে উনাকে নিয়ে মাতামাতি করতে করতে সবাই ত্যক্ত। চরিত্রের মন্দ দিকগুলো বেরুচ্ছে। চরিত্রহীন হিসেবেই পরিচিত হওয়ার সম্ভাবনা বেশি।

১২| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ১২:৩০

কে ত ন বলেছেন: প্রধানমন্ত্রী তো বলেই দিয়েছেন, আপনারা মামলা করতে থাকেন, বাকী যা করার আমি করব।

এরপরে চাদ্গাজীর মন্তব্যে সহমত।

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ১২:৩৮

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: প্রধানমন্ত্রীর কিছু বক্তব্য আমার বিশ্বাস করতে কষ্ট হয়। উনি চাইলে সুস্থ রাজনীতিরর পরিবেশ সৃষ্টিতে ভূমিকা রাখতে পারতেন। তিনি তা না করে মাত্রাতিরিক্ত নোংরা রাজনীতিতে নিজেকে জড়িয়ে ফেলছেন।

আইভি রহমানকে শামীম ওসমান অসম্মান করতে তিনি নীরব। তাসলিমা নির্বাসিত, দেশে ফেরারর চেষ্টা করছেন কিন্তু পারতেছেন না। তার সরকারও নীরব। দেশের আনাচেকানাচে হারাজ হাজার মহিলা নির্যাতিত, নিপিড়িত হলেও উনার সরকারকে তেমন ভূমিকা নিতে দেখা যায় না।

জনগণ এসব ভালোভাবে নিচ্ছে না।

১৩| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ২:৫২

পলাশবাবা বলেছেন: ঘটনা অনেক কিছুই ঘটে । মেয়ের গর্ভে বাবার সন্তানও হয়। তবে সেটা আমাদের সমাজ কেন পাশ্চাত্যেও বিকৃত রুচি হিসাবেই ধরা হয়। আপনি যেটা বললেন সজ্ঞানেই সঙ্গীর প্রতি অবিশ্বস্ততা সেটাও পাশ্চাত্যেও বিকৃত রুচি হিসাবেই ধরা হয়। পৃথিবীর সব সংস্কৃতিতে এখনো বহুগামিতা রুচির বিকৃতি ছাড়া কিছু নয়। আমাদের সমাজেরও এটা আছে। নামটাও একই। বহুগামিতা। রুচির বিকৃতি। মিথ্যা আর বহুগামিতা দুটা দুই বিষয়। তবে দুটোই চরিত্রহীনতা।

আপনি কি কোনভাবে কোন সমাজতান্ত্রিক দল দ্বারা প্রভাবিত? ওদের মধ্যে এই নোংরামিটা আছে।

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৪২

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: চরিত্রহীন আর চরিত্রবান নির্ণয়ের মাপকাঠি স্রেফ সেক্স এক্টিভিটির উপর নির্ভর করে না। আমি এটাই বলতে চেয়েছি।
একটি মেয়ে ধর্ষিত হলে আমাদের রক্ষণশীল সমাজ মেয়েটিকে চরিত্রহীন বলে। কিন্তু কেন? এখানে মেয়েটির অপরাধ কি?
দেশে শরীর বিক্রি করে যারা বেঁচে আছে তাদেরকেও চরিত্রহীন বলবার অধিকার আমাদের নেই।


আমি কোনো সামাজতান্ত্রীক দলের দ্বারেকাছেও নেই। প্রভাবিত হওয়া ত দূরের কথা।




১৪| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ বিকাল ৩:০১

ফেইরি টেলার বলেছেন: পুরুষদের ক্ষেত্রেও একটি এন্ডেমিক বিশেষণ রয়েছে "লুইচ্চা" | সমাজে এ শ্রেণীর পুরুষের আধিক্যের কারণে বিশেষণটি উপযুগিতা হারিয়েছে |

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৪৪

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: হুম। চরিত্রহীন বিশেষণ'টি শক্তিশালী।
পুরুষ-মহিলা নির্বিশেষে এটা প্রয়োগ করা উচিত।

১৫| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ বিকাল ৪:৩৪

আব্দুল্লাহ্ আল মামুন বলেছেন: বাজারে পাকিস্তানী এক জাতের মুরগী পাওয়া যায়। নাম তার ক্রস মুরগী। অনেকে এইটাকে পাকি ডাকে। দেখতে আমাদের দেশি মুরগির মতোই।। আর আমাদের ভালুকা ময়মনসিংহ তে একটা গার্মেন্টস কোম্পানি খুলেছে পাকিস্তানি রা। তাই ওই এলাকাতে যেতে হলে এখন বাস হেল্পার।মামাকে বলতে হয়। মামা পাকিস্তান যাবো। আমি সেইদিন ভালুকা যাবো। বাসে উঠেছি। ময়মনসিংহ থেকে আমার সাথে কিছু লোক উঠে বলছে মামা পাকিস্তানে যাবো। পরে বুঝলাম। তারা পাকিস্তান গার্মেন্টস এ যাবে। শুনলান পাকিস্তানি মুরগীর মতো আমাদের দেশে একটা পাকিস্তানের পুত্র বধু আসছে। দেখতে আমাদে দেশী মানুষের মতোই।।

সে আমাদের দেশে দেশী বুদ্ধিজীবী। বাহ বাহ। পাকিস্তানী মুরগি

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৩৭

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: আওয়ামী ৭১রের চেতনা নিজেদের সুবিধার্থে ব্যবহার করছে।

১৬| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:০৭

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: মহিলাদের প্রতি দৃষ্টিভঙ্গি যদি একজন বিচারপতি র এরকম হয়ে থাকে তাহলে আমজনতার কি হবে ?
উনি হয়তো দুঃখ প্রকাশ করেছেন , তবুও বিষয়টি খুবই উদ্বেগের ।


শুভকামনা আপনাকে ।

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৫৭

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: উনার মতো শিক্ষিত মানুষদের কাছে এমনটা কেউ আশা করে না।

বিচারবিভাগের আরো স্বচ্ছতা এবং নিরপেক্ষতা আশাকরি।

ধন্যবাদ ও শুভকামনা প্রিয় পদাতিক দা

১৭| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৪৫

পলাশবাবা বলেছেন: পদাতিক চৌধুরিঃবাই ব্যারিষ্টার সাব বিচারপতি নি .।.।.।

জুনায়েদ বি রাহমানঃ
দেশে শরীর বিক্রি করে যারা বেঁচে আছে তাদেরকেও চরিত্রহীন বলবার অধিকার আমাদের নেই।

<< আপনি মনে হয় পতিতালয়ে বিক্রি হয়ে যাওয়া মেয়েদের কথা বলছেন। হু এক্ষেত্রে আসলে ওদের কিছু করার নাই।এরা ভিক্টিম। কিন্তু যারা ধরেন, যাদের বলে high class prostitute , 10K+ per night ওনাদেরও কি একই ক্যাটাগরিতে ফেলবেন ......... মনে হয় না। ওনারাও কিন্তু শরীর বিক্রি করে বেঁচে !!!!! আছে।

আপনার মূল লেখার ২য় প্যারার বোল্ড ছাড়া লেখা টা পুরা বোগাস ব্যাখ্যা।

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ রাত ৮:২৩

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন:
যাদের বলে high class prostitute , 10K+ per night ওনাদেরও কি একই ক্যাটাগরিতে ফেলবেন ......... মনে হয় না। ওনারাও কিন্তু শরীর বিক্রি করে বেঁচে !!!!! আছে।

এদের কর্মকাণ্ড সমাজের ক্ষতি করলে খারাপ ক্যাটাগরিতে পড়বে।


কোন প্রেমিক/স্বামী/স্ত্রী যদি প্রেমিকা/স্বামী/স্ত্রীর সম্মতিতে অন্যের সাথে শারীরিক সম্পর্কে জড়ালে সেটা অপরাধ হবে না। অপরাধ হবে না জানিয়ে জড়ালে। এখানে অধিকারের একটা বিষয় আছে।

ধন্যবাদ @পলাশবাবা

১৮| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৫৭

পাঠকের প্রতিক্রিয়া ! বলেছেন: ভাট্টি সুবিধাবাদী, আর মইনুল বদ। গতকাল মইনুলের ফোন আলাপ ফাঁস হয়েছে(যদিও রাষ্ট্র এর সাথে জড়িত এবং এটা ফাঁস করা অপরাধ)

টক শো প্রসঙ্গে বলি, ভাট্টি ফালতু একটা প্রশ্ন করেছে। আর মইনুল তাঁরছেড়া মন্তব্য করেছে। লাইভে এমন কথা মানায় না।

মইনুল এটা নিয়ে ক্ষমা চেয়েছে খেল খতম। কিন্তু একদল লোক মামলা, সাংবাদিক সমাবেশ করে মগজহীনতার পরিচয় দিয়েছে।
আর মনুকে গ্রেফতার ও জামিন না মন্জুর করে কোর্টে চালান দেয়াটা রাজনৈতিক চাল।

পুনশ্চঃ এদিকে প্রধানমন্ত্রী মহিলা সাংবাদিকদের মামলা করতে উস্কে দিয়েছে। দেশের পুলিশ কি ফাস্ট মাইরি:P

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ রাত ৮:২৭

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: ঠিক বলেছেন।

প্রধানমন্ত্রীর কাছে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত এমন বক্তব্য বা অবস্থান বেদনাদায়ক!

১৯| ২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ রাত ৮:০০

পাঠকের প্রতিক্রিয়া ! বলেছেন: @ পলাশবাবা

কি পলাশ ভায়া? ক্ষেপলেন ক্যা? সরীর ভালা আছে নি?

সময় থাকলে একটা পোস্ট দ্যান। দেখি, কেমন দাবা খেলতে পারেন...

২৩ শে অক্টোবর, ২০১৮ রাত ৮:৩১

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: পলাশবাবার ক্ষেপার কারণ আমার ব্যাখ্যার অস্পষ্টতা। মতের অমিলও আছে।

উনার মতামতের প্রতি আমি শ্রদ্ধাশীল। আবারো উনাকে ধন্যবাদ।

২০| ২৪ শে অক্টোবর, ২০১৮ ভোর ৫:৫৯

অবেলার পানকৌড়ি বলেছেন: একটা মেয়ে কার সাথে ঘুমাবে তা একান্তই তার ব্যক্তিগত ব্যাপার। এজন্য তালাকনামা তো আছেই স্বামীর পক্ষ থেকে তাই বলে ব্যক্তিগত ব্যাপার নিয়ে এভাবে আক্রমণ করাটা ৩য় পক্ষের কারও ঠিক নয়। এর আগেও এক অনুষ্ঠানে বাছুর বি চৌধুরী, তারানা হালিমকে বলেন," বঙ্গবন্ধুর দেশে কি একজন মেয়েও পাওয়া গেল না বিয়ের জন্য যে দেশের বাহিরের মেয়েকে বিয়ে করতে হলো? "
আসলে এই মানুষ গুলির মাথায় গোবর ছাড়া কিছুই নেই, যারা নিয়মিত আলোচনা থেকে ব্যক্তিগত আক্রমন করে। হ্যা, যদি এমন হতো মাসুদা ভাট্টি কাউকে ব্ল্যাকমেইলিং করার চেষ্টা করছে তাহলে তাকে চরিত্রহীন বলা যেত কিন্তু তিনি তো তার ব্যক্তিগত ব্যাপারগুলি ব্যক্তিগতই রেখেছেন,, প্রকাশ্যে তো আনেননি।

২৪ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৯:৪১

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: যারা খুব সহজে উত্তেজিত হয়ে যান, তাদের রাজনীতিতে না আসাই ভালো। মইনুল হোসেন খুব সহজেই উত্তেজিত হয়ে যান।
কাউকে ব্যক্তিগত আক্রমণ করা উচিত। বিষয়টা আমদের প্রত্যের খেয়াল রাখা উচিত।

২১| ২৪ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৮:১০

স্বপ্নের শঙ্খচিল বলেছেন: তাহলে চরিত্রহীন বলতে কি তারা এখনো সেই অবাধ যৌনাচারই বুঝেন?!
.............................. নারীবাদী দের একসময় শ্লোগান শুনে ছিলাম,
"আমার দেহমনের সিদ্বান্ত আমার অধিকার" সুতরাং চরিত্রহীন এখানে বলা যাবে না।
ব্যারিস্টার মানুষরাও মাঝে মাঝে বোকা হয়, পিগমী , ডেডো বল্লে বোধহয় এই বিপদে পরত না।

২৪ শে অক্টোবর, ২০১৮ সকাল ৯:৪৬

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: ৭১ টিভির ৭১ জার্নাল অনুষ্ঠানে অতিথিদের এমন অনেক প্রশ্নই করা হয়ে থাকে। এটা আসলে ঠিক নয়।

খেয়াল করেছি ৭১, ইন্ডিপেন্ডেন্ট, সময়সহ কয়েকটি টিভি চ্যানেল সরকারের পক্ষে কথা বলে।

২২| ২৫ শে অক্টোবর, ২০১৮ ভোর ৪:৩৮

nahih09 বলেছেন: মাসুদা ভাট্রির চরিত্র ফুলের মতো পবিত্র !

২৫ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ১২:৪৬

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: :)

২৩| ২৫ শে অক্টোবর, ২০১৮ দুপুর ২:৫৮

আখেনাটেন বলেছেন: চলিতেছে সার্কাস। অামরা দর্শক।

২৫ শে অক্টোবর, ২০১৮ বিকাল ৩:১৩

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: এইসব ধারাবাহিক সার্কাস বন্ধের সম্ভাবনা নেই। নেই আমাদের মুক্তি ও!

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.