নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

ছিলাম বইয়ের পোকা, এখন ইন্টারনেটের ।

এক সময় বই ছিল আমার নিত্য সঙ্গী , অনেক রাত জেগে বালিশ নিয়ে উপুর হয়ে বই পড়তে পড়তে বুক ব্যাথা হয়ে যেত । পড়া শেষ হতো না । আজো বইয়ের কথা মনে হলে আমার বুকে ব্যাথা হয়, তাদের মলাটে ধুলোর আস্তর জমেছে বলে । বইয়ের পোকা থেকে এখন আমি ইন্টারনেটের পোকা ।

সাদা মনের মানুষ

বিশ্ব জোড়া পাঠশালা মোর সবার আমি ছাত্র --নানা ভাবে নতুন জিনিস শিখছি দিবা রাত্র 'মুর্খরা সব শোন, মানুষ এনেছে গ্রন্থ, গ্রন্থ আনেনি মানুষ কোন'

সাদা মনের মানুষ › বিস্তারিত পোস্টঃ

সারাংকোটে গিয়ে দেখা অপরূপ \'অন্নপূর্ণা\'

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৪:৪২


নেপালের পোখারার পাহাড়ের উপর সারাংকোট এলাকাটা সারাদিন কেমন থাকে জানিনা। প্রায় পাঁচ হাজার ফুট উঁচু সারাংকোটের সানরাইজ ভিউ পয়েন্টে ভোর হতে না হতেই পর্যটকদের পদভারে ব্যাপক সরগরম হয়ে উঠে। অন্নপূর্ণা পর্বতমালার বরফ ঢাকা শ্বেত শুভ্র শরীরে সূর্যের আলোয় যে সোনালি আভা দেখা যায়, সেই মোহনীয় রূপ দেখতে পর্যটকদের উপচে পড়া ভীর। অন্নপূর্ণা মানে অন্নদাত্রী বা অন্নের দেবী। এক সময় এই পর্বতকে শষ্যভাণ্ডারের দেবী মনে করা হত। তাই তাকে এই নামে ডাকা হয়।


(২) দূর থেকে দেখা সারাংকোট গ্রাম।


(৩) পোখারা শহর থেকে আধা ঘন্টার মতো সময় পাহাড়ের ঘোরানো পেচানো পথের শেষে দেখা এই মাইল পোষ্ট। সারাংকোট শূন্য কিলোমিটার।


(৪) এখানকার বাড়িগুলো প্রায় একই রকম। বাসিন্দারা তাদের ছাদে চেয়ার পেতে পর্যটকদের বসে 'অন্নপূর্ণা'র রূপ দেখার সুযোগ করে দেয়। আর পর্যটকদের দেওয়া ১০০ রূপীতে নিজেদের অন্নের ব্যবস্থা হয়। সেই সাথে ক্ষণিকের জন্য কিছু চা বিস্কুট আর স্যুভেনীর বিক্রির কাজটাও সেরে ফেলে।


(৫) পর্যটকদের অপেক্ষা........


(৬) মাঝখান দিয়ে বয়ে যাওয়া একটা নদীর পাশের গ্রামটা তখনো পুরোপুরি জেগে উঠেনি।


(৭) বুলবুলির মতো দেখতে এই পাখিটা সকালের আগমনী গান গাচ্ছিল।


(৮) মা ও ছানা বকেরাও বাঁশ ঝাড়ের মাথায় চঞ্চল হয়ে উঠছিল।


(৯) একটু দূরে ফেউয়া লেকের আকাশ কিছুটা মেঘে ঢাকা, মেঘে ঢাকা আমাদের মনও। কারণ মেঘ থাকলে অন্নপুর্ণাকে পূর্ণ রূপে দেখা সম্ভব হবে না।


(১০) আশংকা সত্যি করে ঠিকই এক দঙ্গল মেঘ অন্নপূর্ণার চুড়াকে ঢেকে রেখেছিল।


(১১/১২) তবে পাশের কিছু ছোট অংশকে আমরা পরিপূর্ণ ভাবে দেখতে পাচ্ছিলাম।



(১৩) ফেউয়া লেকের উপারের পাহাড় চূড়ায় একটা মন্দির।


(১৪) পথের পসারে স্যুভেনীর।


(১৫) সারাংকোটের জামদানী।


(১৬) এখানে রয়েছে কিছু কমলা গাছও।


(১৭) অনেকে ১০০ রূপীর ছাদে না চড়ে নীচে দাঁড়িয়েই অন্নপূর্ণাকে দেখে নিচ্ছে।


(১৮/১৯) পোখারার অন্যতম আকর্ষন ফেউয়া লেক।



(২০) সারাংকোটে গিয়ে মেঘের আড়াল থেকে 'অন্নপূর্ণা'র চূড়াকে দেখতে না পারলেও অন্য একদিন ফেউয়া লেকের পাড়ে দাঁড়িয়ে ঠিকই ওর ছবি তুলে নিয়েছিলাম। প্রথম ছবিটাও এই লেকের পাড় থেকেই তোলা।

মন্তব্য ৮১ টি রেটিং +১৬/-০

মন্তব্য (৮১) মন্তব্য লিখুন

১| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৪:৫৩

MirroredDoll বলেছেন: excessive beauty!

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৪:৫৪

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: থ্যাঙ্কস

২| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৪:৫৮

শায়মা বলেছেন: পাহাড়ের সৌন্দর্য্য কখনই ছবিতে ধরা যায় না তাইনা ভাইয়া!


ছবিতে যা ধরেছো তার থেকেও শতগুন সুন্দর এই অন্নপূর্না !

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৫:০১

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: আমার মনের কথাটাই বলেছেন আপু, শুধু পাহাড় কেন? কোন সৌন্দর্য্য ক্যামেরায় শতগুল ফুটিয়ে তোলা সম্ভব হয় না। ধন্যবাদ আপু, ভালো থাকুন, সব সময়।

৩| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৪:৫৯

আল ইফরান বলেছেন: খুবই চমৎকার জায়গা ছবি দেখেই বুঝা যাচ্ছে। :)
আমাদের এক কলিগ ঈদের মধ্যে ঘুরে এসে বেশ প্রশংসা করেছিলেন ।

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৫:০২

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: জ্বী ভাই, নেপালের এই এলাকাটা সত্যিই অসাধারণ, শুভেচ্ছা জানবেন।

৪| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৫:০১

বিদ্রোহী ভৃগু বলেছেন: যেন আগুন লেগেছে পাহাড়ের গায়!!!

প্রকৃতির বিস্ময় প্রকৃতির কোলে বসে অনুভবের স্বাদই আলাদা!

ভার্চুয়াল স্বাদেও তৃপ্ত। ধন্যবাদ অনেক অনেক। :)

++++

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৫:০৪

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ধন্যবাদ ভাইজান, কেমন আছেন আপনি? আমি নিজেও ব্লগে বেশী সময় দিতে পারি না, আপনাদের মতো গুণীজনের সান্নিধ্যও তাই পাচ্ছি কম।

৫| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৫:৫৭

প্রামানিক বলেছেন: দেখলাম, আপনার চোখ দিয়া নেপালের সারাংকোট। আবার চোখের ভাড়া চাইয়েন না। ধন্যবাদ

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৬:০৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: চোখের ভাড়া না দিলে বিমান ভাড়াটাই দেন B-)

৬| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:২৪

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: (৩) পোখারা শহর থেকে আধা ঘন্টার মতো সময় পাহাড়ের ঘোরানো পেচানো পথের শেষে দেখা এই মাইল পোষ্ট। সারাংকোট শূন্য কিলোমিটার।


হিন্দি লেখা তো ভালোই পড়তে পারেন। সারাদিন হিন্দি সিনেমা দেখেন নাকি?

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৩১

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: সময় পাইনা বলে খুব একটা দেখা হয় না।

৭| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:২৯

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: (৪) এখানকার বাড়িগুলো প্রায় একই রকম। বাসিন্দারা তাদের ছাদে চেয়ার পেতে পর্যটকদের বসে 'অন্নপূর্ণা'র রূপ দেখার সুযোগ করে দেয়। আর পর্যটকদের দেওয়া ১০০ রূপীতে নিজেদের অন্নের ব্যবস্থা হয়। সেই সাথে ক্ষণিকের জন্য কিছু চা বিস্কুট আর স্যুভেনীর বিক্রির কাজটাও সেরে ফেলে।


এখানে আমিও একটা বাড়ি তৈরি করতে চাই। অন্নপূর্ণাও দেখা হবে, কিছু মালপানিও কামানো যাবে। রথ দেখা ও কলা বেচা একসাথে আর কি! হে হে হে।

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৪৩

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ঐ পাহাড়ি রাস্তায় কলা বিক্রিটা ভালো হলেও রথ চালানো সম্ভব হবে না :)

৮| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৩৩

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: (৭) বুলবুলির মতো দেখতে এই পাখিটা সকালের আগমনী গান গাচ্ছিল।



এটা তো বুলবুলির জাত ভাই চুলবুলি। এত সাধারণ একটা পাখিরেও চিনেন না?

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৪৫

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: আপনার মতো আমার চোখে চশমাটা ছিলো না বলেই হয়ত.......... B-)

৯| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৩৭

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: (৯) একটু দূরে ফেউয়া লেকের আকাশ কিছুটা মেঘে ঢাকা, মেঘে ঢাকা আমাদের মনও। কারণ মেঘ থাকলে অন্নপুর্ণাকে পূর্ণ রূপে দেখা সম্ভব হবে না।



ফেউয়া লেক আর আমাদের চট্টগ্রামের ফয়'স লেক। দুটো লেকের নামেই 'ফ' অক্ষর আছে। কী দারুন মিল, তাই না?

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৪৬

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: এই জন্যই মাইষে কয়, কাউয়া আর কবি এই দেশে বেশী =p~

১০| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৩৯

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: (১৫) সারাংকোটের জামদানী।


ভাবীর জন্য কয়েকটা কিনেছেন নিশ্চয়।

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৪৪

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: জামদানীর সালোয়ার কামিজের সেট পাইলাম না :((

১১| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৪১

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: (১৭) অনেকে ১০০ রূপীর ছাদে না চড়ে নীচে দাঁড়িয়েই অন্নপূর্ণাকে দেখে নিচ্ছে।


মাত্র ১০০ রূপী বাঁচানোর কী দরকার? ওটা তো এক সময় খরচ হয়েই যাবে।

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৪৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: কিংবা ওটা খরচ না করে বাংলাদেশে নিয়া আসলেও অচল হয়ে যাবে, লোকগুলো আসলেই বুকা ;)

১২| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৪৭

নীল-দর্পণ বলেছেন: সুন্দর সব ছবি দেখলাম।
তাড়াতাড়ি যাই নতুবা লেখক ভারা-টাড়া চেয়ে বসলে মুশকিল :P

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৫৬

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: B-)

১৩| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৫৪

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: (১৮/১৯) পোখারার অন্যতম আকর্ষন ফেউয়া লেক।


যাইতে মুঞ্চায়। কিন্তু আপনার ভাবী যাইতে দিব না। বুড়া মানুষ। কখন ফেউয়া লেকে পইড়া হারাইয়া যাই, বলা তো যায় না।

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:০২

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: হ বুড়া মানুষ এতো দূরে যাওনের কাম নাই, বাড়িতে বসে ল্যাংড়া বা লুলা আম খান :D

১৪| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ সন্ধ্যা ৭:৫৮

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: কিংবা ওটা খরচ না করে বাংলাদেশে নিয়া আসলেও অচল হয়ে যাবে, লোকগুলো আসলেই বুকা ;)


হে হে হে। আপনার গেয়ান কত! নোবেল সাহেব বেঁচে থাকলে পুরস্কারটা আপনারেই দিত।

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:১৫

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: নোবেল সাহেবের বংশধরদের মধ্যে কেউ বেঁচে আছে কিনা একটু খবর নেবেন? :-B

১৫| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:০১

নীল-দর্পণ বলেছেন: ওয়াও ! ছোটবেলার দেখা খুব মজার এক সিনেমা। নায়িকারা ফাঁকি দিতে গিয়ে ভিলেনের গাড়ীর গ্লাসে ডিম ছুড়েছিল।

আজকেও ডিম ভাংচুর হয়েছে জানেন? ;)

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:১৮

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: তাহলে তো দেখছি ডিম ভাঙ্গাটা আজকে কমন পড়ে গেল :D

১৬| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:০২

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: পালাবো পোখারায়। আমি কিন্তু ভাড়া টাড়া দিতে পারবো না।

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:১৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: আমিও টাকা দিতে পারবো না, আহেন গলাগলি কইরা হাটা ধরি ;)

১৭| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:০৫

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: বাঁ থেকে চম্পা, শাবানা, সুবর্ণা মোস্তফা ও হুমায়ুন ফরিদী। ঠিক বলেছি না?

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:২১

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: বুঝছি, ছোট বেলা ভালোই ক্লাস ফাকি দিছেন =p~

১৮| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:১৯

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: নোবেল সাহেবের বংশধরদের মধ্যে কেউ বেঁচে আছে কিনা একটু খবর নেবেন? :-B


নোবেল সাহেব তো ছিল বাঁঝা ( মানে বুঝতে পারছেন তো? )। তার বংশধর আসবে কোত্থেকে?

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:২১

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: হায় আল্লা কন কি!!!!!!!! তাহলে ওনার চাচাত, মামাত, ফুপাত, পাড়াত, গ্রামত কোন ভাই ব্রাদারের খোজটা কি একটু করবেন? :>

১৯| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:২৭

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: হায় আল্লা কন কি!!!!!!!! তাহলে ওনার চাচাত, মামাত, ফুপাত, পাড়াত, গ্রামত কোন ভাই ব্রাদারের খোজটা কি একটু করবেন?


নেটে সার্চ দিয়ে দেখলাম, নোবেল সাহেবের চাচা, মামা, ফুপা, পাড়া, গ্রাম সবাই ছিল বাঁঝা। তাই অগো কোন পোলাপান নাই।

১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:২৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: তাহলে দায়িত্বটা মনে হয় আপ্নাকেই নিতে হবে :D

২০| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:৩৪

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: তাহলে দায়িত্বটা মনে হয় আপ্নাকেই নিতে হবে


আপনাকে ফটোগ্রাফির জন্য পুরস্কার দিতে পারলে তো আমি ঝাকানাকা ড্যান্স দিতাম কামাল ভাই। :-P

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:১৪

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: যখন তখন আপ্নার বাড়িতে ঢু মারতে পারি, রেডি থাইকেন :)

২১| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:৩৭

নাঈম জাহাঙ্গীর নয়ন বলেছেন: অজানাকে জানার বুঝার জন্য সাদা ভাইয়ের জুড়ি মেলা দায়, এবারের ছবিগুলোও প্রাণবন্ত, চমৎকার।
কৃতজ্ঞতা রইল একদম অজানার সাথে পরিচয় করিয়ে দেয়ার জন্য, সুন্দর প্রকৃতির দেখানোর জন্য।


শুভকামনা আপনার জন্য সবসময়।
আল্লাহ্ আপনাকে সুস্থ সবল রাখুক কামনায়

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:১৬

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ধন্যবাদ নয়ন ভাই, আপনাদের এমন শুভ কামনায় সব সময়ই আমি কৃতজ্ঞ হই।

২২| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:৪২

সুমন কর বলেছেন: আপনি পৃথিবীর সবচেয়ে সুখী মানুষ। সারা জীবন এমনই থাকুন।

ছবিগুলো দেখে ভালো লাগল। +।

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:১৭

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: সূখি মানুষ না হলেও সুখে থাকার চেষ্টাটা করি নিরন্তর, শুভেচ্ছা জানবেন দাদা

২৩| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:৪৮

ধ্রুবক আলো বলেছেন: সুমন ভাইয়ের মন্তব্য খুব সুন্দর লাগলো।

ছবি গুলো সুন্দর হয়েছে বরাবর যেমন হয়। মুগ্ধতা ও ভালোলাগা।

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:১৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: সুমন ভাই এবং আপনাদের সবার এমন সুন্দর মন্তব্য আমাকে সব সময় অনুপ্রাণিত করে।

২৪| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১০:৩৬

সনেট কবি বলেছেন: মনমুগ্ধকর দৃশ্যের সমাহার। নিজে দেখছেন সবাইকে দেখাচ্ছেন, সে জন্য আমরা কৃতজ্ঞ। আপনাকে আমাদের দেশের গর্ব বলতে পারি।

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:২৫

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ফরিদ ভাই, আমাকে নিয়া এতোটা বলা হয়তো ঠিক না। তবে আমার প্রতি আপনাদের এমন শুভ কামনায় আমার চলার পথ মসৃন হয়।

২৫| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১০:৩৭

কথাকথিকেথিকথন বলেছেন:




আপনার ছবিব্লগগুলো বেশ পরিপূর্ণ থাকে । মন ভরে যায় । অনেক ভাললাগা ।

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৩৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ধন্যবাদ কথাকথি ভাই, ভালো থাকুন, সব সময়।

২৬| ১৩ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১১:৫২

কালীদাস বলেছেন: ভোরের প্রথম আলোটা হঠাৎ চোখের উপর পড়ে। খুবই আচমকা। এত ভোরেও অনেক, অনেক ট্যুরিস্ট যায় জায়গাটায় জাস্ট সুর্য ওঠা দেখতে। প্রথমে বুঝিনি, সিড়ির দিকে হাঁটা দেয়ার সময় একজন মেণ্যু ধরিয়ে দেয়ায় আর যাইনি, মনে মনে বদ বলেছিলাম :(

আপনার ছবিগুলো যথারীতি সুন্দর এসেছে ;)

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৪২

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ধন্যবাদ ভাই, ওখানকার সব সৌন্দর্য্য আসলে ক্যামেরায় ধরা যায় না।

২৭| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১২:০২

মনিরা সুলতানা বলেছেন: খুব সুন্দর ছবি !!!

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৪৩

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: শুভেচ্ছা ভানবেন আপু।

২৮| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১২:১০

জীবন সাগর বলেছেন: খুব সুন্দর ছবি গুলো উপভোগ করলাম। নতুন জায়গার সাথে পরিচিত হয়ে খুব আনন্দিত।

শুভকামনা রইল আপনার জন্য ন

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৪৪

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: আপনার জন্য শুভ কামনা রইল সাগর ভাই।

২৯| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১২:১১

জীবন সাগর বলেছেন: ইস্! শেষে ন টা কেমনে হয়ে গেল...

এডিট করার যদি একটা অপশন থাকতো !

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৪৫

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: সমস্যা নেই, আমি আগেই বুঝে নিয়েছিলাম ভাইজান।

৩০| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১২:১৭

কানিজ রিনা বলেছেন: ১, ১০ ১১,১২, ২০ ছবিগুল শুধু সৃষ্টি কর্তার
প্রশংসা। তার অপার সৃষ্টির তুলনা নাই।
আপনার ছবি তুলার হাতকেও অনেক
প্রশংসা রেখে গেলাম। ধন্যবাদ।

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৪৭

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ধন্যবাদ রিনা আপু, আপনাদের এমন প্রশংসায় আমি সব সময়ই অনুপ্রাণিত হই।

৩১| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ সকাল ৯:৫৪

নায়না নাসরিন বলেছেন: ভাইয়া কি সুন্দর পাহার । ঐখানে যারা থাকে তাদের কত ভাগ্য :)
ভালোলাগা ।

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৪৮

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: পাহাড়, সাগর, লেক এসব বরাবরই সুন্দর হয়,,,,,,,,,,,,,,,,শুভেচ্ছা জানবেন আপু।

৩২| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ সকাল ১০:৩৯

সোহানী বলেছেন: আপনার পোস্ট মানে বিশেষ কিছু.............

সরি আপনার পোস্ট পড়ি কিন্তু মন্তব্য করা কম হয়.. আর বোকা ভাইয়ের খবর কি, বহুদিন দেখি না?

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৪৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: বোকা লোকটা মনে হয় ব্লগের বাইরে ব্যস্ত, ওনার পোষ্টগুলো আমি খুব মিস করি। আপনি কেমন আছেন আপু।

৩৩| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৩:৩৫

নীলপরি বলেছেন: প্রতিটা ছবিই অসাধারণ । বিশেষ করে প্রথমটা ।

শুভকামনা ।

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৫০

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ধন্যবাদ পরী, উৎসাহিত হলাম।

৩৪| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৪:০৫

মোস্তফা সোহেল বলেছেন: সত্যি অসাধারন জায়গা বলতে হয়। ছবিতে কিছুটা দেখে নিলাম আপনার মাধ্যমে।
অনেক ধন্যবাদ ভাইয়া।

১৫ ই অক্টোবর, ২০১৭ সকাল ৭:১৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: হুমম, নেপালের পোখারা এলাকাটা সত্যিই অনেক সুন্দর, শুভেচ্ছা জানবেন মোস্তফা ভাই।

৩৫| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:২৮

ডঃ এম এ আলী বলেছেন:
সারাংকোটের অপরুপ দৃশ্যাবলি দেখে মুগ্ধ ।

আমার নজর কেরেছে সারাংকোটের জামদানী । জানতাম জামদানীতে এতদিন বিশ্বের বুকে আমরাই এক ও অদ্বিতীয় । ভারতীয়রা বর্তমানে বস্ত্র শিল্পে দুনিয়ার দুনিয়ার সেরা হলেও জামদানি তারা পারছেনা তৈরী করতে । কলিকাতার ললনারা জামদানীর জন্য সবসময়ই থাকে লালায়ীত । সেই জমদানী নেপালেও হয় দেখে ভাল লাগল । আনুমানিক ৩০০ খ্রিস্টাব্দে কৌটিল্যের অর্থশাস্ত্র গ্রন্থে, পেরিপ্লাস অব দ্য এরিথ্রিয়ান সি বইতে এবং বিভিন্ন আরব, চীন ও ইতালীর পর্যটক ও ব্যবসায়ীর বর্ণনাতে জামদানীর ইতিহাস পাওয়া যায় । কৌটিল্যের বইতে বঙ্গ ও পুন্ড্র এলাকায় সূক্ষ্ম বস্ত্রের উল্লেখ আছে, যার মধ্যে ছিল ক্ষৌম, দুকূল, পত্রোর্ণ ও কার্পাসী। মুঘল নেপালের আঞ্চলিক পোশাক রাঙ্গার জন্যও জামদানি কাপড় ব্যবহৃত হত:

নেপালের জামদানী বেশ ইন্টারেসটিং সাবজেকট হবে ভবিষ্যত গবেষনার জন্য ।

অনেক অনেক শুভেচ্ছা রইল ।

৩৬| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৩২

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: যখন তখন আপ্নার বাড়িতে ঢু মারতে পারি, রেডি থাইকেন :)


ধন্যবাদ কামাল ভাই। আপনি আমার বাড়িতে আসতে চেয়েছেন, এটা তো আমার সৌভাগ্য। তবে দয়া করে আগে ফোন দিয়েন। কারণ, দুই এক দিনের মধ্যেই আমার ছোট ভাইয়ের চিকিৎসার জন্য কোলকাতায় যেতে হতে পারে।

১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৪৩

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ভাইগা গেলে আমি অন্য কোথাও বেড়িয়ে চলে আসব, কি আর করা? :((

৩৭| ১৪ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৫৮

আহমেদ জী এস বলেছেন: সাদা মনের মানুষ ,




আপনার ক্যামেরায় তোলা 'অন্নপূর্ণা'র সোনালী রূপচ্ছটায় বিমোহিত । অপূর্ব ।

১৫ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৫:২৭

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ধন্যবাদ বড় ভাই, ভালো থাকুন, সব সময়।

৩৮| ১৫ ই অক্টোবর, ২০১৭ সকাল ৮:২৮

মলাসইলমুইনা বলেছেন: অন্নপূর্ণার ফটোগুলো খুবই সুন্দর | ভালো লাগলো তার সাথে ছোট ছোট বর্ণনা |

১৫ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:০৫

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: ধন্যবাদ ভাই, এটাই আমার ছবি পোষ্টের ধরণ

৩৯| ১৫ ই অক্টোবর, ২০১৭ সকাল ১১:৩৬

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: আপনি ঠিক কবে আসবেন বলতে পারবেন? মানে একজ্যাক্ট ডেট। আমি সম্ভবত আগামীকাল রওনা দেব। ফেরার সঠিক ডেট বলতে পারছি না।

১৫ ই অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৫:২৯

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: আপনি আগে ফিরে আসুন, পরে আমি ভাববো কবে কখন যাওয়া যায়। টেনশন নিয়েন না, আপনাকে ছাড়া আমি আপনার বাড়িতে অতিথী হতে চাই না :)

৪০| ১৫ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৯:৩৪

ডঃ এম এ আলী বলেছেন: আবারো দেখে গেলাম , বাকি সবগুলি ছবিই ভাল লেগেছে ।
নজর না পড়ায় মনে হয় এ যাত্রা বেঁচে গেলাম :)

ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা জানিয়ে গেলাম ।

১৬ ই অক্টোবর, ২০১৭ রাত ৮:১০

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: বুঝলাম না তো কিছু! আমি আপনার মন্তব্যের জবাবে ছোট একটা মন্তব্য করেছিলাম বলেই কিন্তু আমার ১০০% মনে হচ্ছে। কিন্তু কেম্নে কি? সব থেকে সেরা মন্তব্য আমার দৃষ্টি এড়িয়ে যাওয়ার সুযোগটা পেল কিভাবে!!!!!!!

৪১| ১৬ ই অক্টোবর, ২০১৭ দুপুর ১২:৪৮

দেশ প্রেমিক বাঙালী বলেছেন: মুগ্ধকর দৃশ্যের সমাহার।





ভালো থাকুন নিরন্তর। ধন্যবাদ।

১৭ ই অক্টোবর, ২০১৭ সকাল ৭:৪৭

সাদা মনের মানুষ বলেছেন: শুভেচ্ছা জানবেন বাঙালী

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.