নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

টারজান০০০০৭

টারজান০০০০৭ › বিস্তারিত পোস্টঃ

নির্বাচন রঙ্গ : এবার নির্বাচন হইলে আমি কাহাকে সমর্থন করিব?

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ৯:৫৭



রাজনীতির মধ্যে পলিটিক্স ঢুকিয়া গিয়াছে বিধায় রাজনীতি আমার পছন্দ নহে ! তয় নির্বাচনে আমার ব্যাফক আগ্রহ! আমার ভাই , তোমার ভাই , অমুক ভাই , তমুক ভাই ! অমুক ভাইয়ের চরিত্র ধুতরা ফুলের মতন পবিত্র ! শুনিতেই মজা লাগে ! নির্বাচন আসিলে, বাপ্-চাচারা হইয়া যায় ভাই , আর মা-খালারা হইয়া যায় আফা !বাপেরেও ভাই কহিতে হয় , মায়েরও আফা কহিতে হয় !

আমাদের তখন চোখ ফুটিয়াছে ! মিছিল মিটিঙে যাই না ! তবে ভোটার হওয়ার খুব আগ্রহ ! প্রার্থীরা কতকিছু দিয়া যায় ! নিদেন পক্ষে দুই হাত কচলাইয়া ভোট ভিক্ষা করে , নিজেরে বিরাট কিছু মনে হয় ! আমার স্কুলের স্যাররে কত হাতে পায়ে ধরিলাম, স্যার ভোটার বানাইয়া দেন ! স্যার দিলেন না ! পরিচিত হওয়ার এই এক যন্ত্রনা ! দুর্নীতিও করে না, কাজও করিয়া দেয় না ! পরবর্তীতে ইহা বহুবার দেখিয়াছি ! আমার শ্রদ্ধেয় শিক্ষকের দুর্নীতিবাজ হওয়ার কথা কল্পনাই করিনা ! কিন্তু তিনি আমারে পাত্তাই দিলেন না ! জানিতেন ইঁচড়ে পাকা হইলেও আসলে বয়সে পাকি নাই ! মন খারাপ করিয়াছিলাম !



নির্বাচন আসিলেই ছক্কা সয়ফুরের মতন আমার আগ্রহ চাগাম দিয়া উঠে ! ভোটে দাঁড়ানোর জন্য নহে ! মিছিল, মিটিং, ক্যানভাস দেখিতে ভালো লাগে ! মনে হয়, আমিও ক্যানভাসার হইয়া যাই ! তবে নির্বাচনে আমি যাহাকেই সমর্থন করি , তিনিই হারিয়া থাকেন ! সেই ছুডুকাল থেইক্কাই আমার কফাল পোড়া ! শুধু আমারই নহে ! আমার আত্মীয় স্বজন পরিচিত যাহারা ভোটে দাড়াইয়াছেন সকলেরই কফাল পোড়া ! যাহা হউক, স্মৃতিচারণ যখন করিতেই বসিয়াছি, তখন আর না বলিয়া পারিতেছি না। একে একে বলি !

আমার এক এক ভগ্নিপতি বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রনেতা ছিলেন। ছাত্রসংসদ নির্বাচনে দাঁড়াইলেন ! জনপ্রিয় হইলেও ভোটপ্রিয় ছিলেন না ! সকলেই তাহাকে ভালোবাসিত ! তিনি আদতে ছিলেন আদু ভাই ! তাহার দুই শ্যালিকা, বন্ধুবান্ধব সকলেই তাহার জন্য প্রাণপাত করিলেন। পোলাপাইন জোগাড় করিয়া দারুন মিছিল হইল , জনসংযোগ হইল। কিন্তু প্রতিপক্ষ আরেক কাঠি বাড়া ! তাহারা ছড়া বানাইলেন ।

একজন সুর ধরে -----

অমুক ভাইয়ের বয়স কত ?

বাকি সবাই উত্তর দেয় --------

বায়ো কি তেয়ো !

আরেকজন উত্তর দেয় ----

মায় কয় আয়ো কম !

ব্যাস ! কাম সারা ! যথারীতি হার !


স্কুল জীবনে একবার ছুটিতে নানা বাড়ি গিয়াছি ! গিয়া দেখি ইউপি নির্বাচন। আমার এক মামা 'মোরগ' মার্কায় মেম্বার পদে নির্বাচন করিতেছেন ! জ্ঞাতিগুষ্টি মিলিয়া মাশাল্লাহ আমাদের রাবনের গুষ্টি ! প্রবল আত্মবিশ্বাস, আমরাই যথেষ্ট ! আমাদের উপর নির্দেশ আসিল, সন্ধ্যার পরে মোরগ মার্কার মিছিল হইবে ! আমাদের অংশগ্রহণ বাধ্যতামূলক ! আমরা গুড়াগাড়া হইলেও যেহেতু গলার জোর আছে, তাই আমাদের এতো কদর ! সন্ধ্যার পর রিক্সাতে মাইক আর হারিকেন লইয়া আমরা যাত্রা শুরু করিলাম ! মাটির রাস্তা, কারেন্ট নাই ! আমরা রোমাঞ্চিত ! হারিকেনের আলোয় সবকিছু ভুতের মতোই দেখা যায় ! নানাবাড়ির রাখাল আলমকে মাইকের দায়িত্ব দেওয়া হইলো।শুরুতেই আমার মনে খটকা লাগিল, আলমের মতন বদ পোলারে মাইকের দায়িত্ব ! যথাসময়ে সে তাহার প্রতিভা প্রকাশ করিতে লাগিল ! সুর করিয়া গান ধরিল ---

"শাপলার মা দিওয়ানা
মোরগ মার্কার নাই তুলনা !
ওই দাদাভাই কয়, আর নানাভাই কয়
মোরগ মার্কার হবে জয় !!!"

ঘুরিয়া ফিরিয়া সে এই কয়টি লাইনই বলিতে লাগিল ! কিন্তু শাপলার মায়ের জায়গায় চরিত্র বদল হইতো ! সম্ভবত পাড়ার কোনো ভাবীসাহেবাই বাদ ছিলেন না ! শাপলার মায়ের পর আসিল কোহিনুরের মা, মুন্নির মা, রহিমার মা ! প্রথম প্রথম সংকোচ বোধ করিলেও আস্তে আস্তে নেশা ধরিয়া গেলো ! আমরাও একনিষ্ঠ সাগরেদের মতন সঙ্গত দিতে শুরু করিলাম ! গভীর রাত পর্যন্ত নাচিয়া কুদিয়া, পায়ের ব্যাথা , গলার ব্যাথায় কাতর হইয়া ক্যানভাস শেষ করিলাম ! যেইরকম খাটুনি খাটিলাম মামার জয় নিশ্চিত ! তাছাড়া আমাদের রাবনের গুষ্টির ভোট পাইলেইতো মামা ফাস্ট ! পাড়ার সব ভাবীসাহেবান দিওয়ানা হইয়াছিলেন বলিয়াই কিনা সবাইকে কাঁদিয়ে মামা ফেল করিলেন ! দুঃখে পরান যায়। পরান গেলেও ন্যাড়ার বেলতলায় বারবার যাওয়ার মতোই আমিও নির্বাচন নিয়া বার বার মাতি !



মার্কা লইয়াও কত কাহিনী ! একবার কোথায় জানি পড়িয়াছিলাম এক নির্বাচনে নারীকুল মার্কা লইয়া ব্যাপক প্রতিবাদ জানাইয়াছিলো , কারণ তাহাদের জন্য হাড়ি-পাতিল, ঝুনঝুনি, শিলনোড়া পর্যন্ত মার্কা নির্ধারণ হইয়াছিল !



সবচেয়ে ন্যাক্কারজনক হইয়াছিল আমাদের এলাকায় গার্লস স্কুলের আফা যখন নির্বাচনে দাঁড়াইলেন ! তাহার মার্কা ছিল দোয়াত-কলম ! শিক্ষয়িত্রী মানুষ। আপাতদৃষ্টিতে খুবই চমৎকার মার্কা। শিক্ষার সাথে সম্পর্কিত ! কিন্তু আমাদের এক বড় ভাই সন্ধ্যায় দেখিলেন তাহার পক্ষে পোলাপাইন মিছিল করিতেছে
একজনা সুর ধরে ---

অমুক আফার

সকলে বলে -----

দোয়াত কলম !



কিন্তু পরের স্লোগানটা জানি কেমুন কেমুন লাগে ! ভালো করিয়া শুনিয়া দেখিলেন বান্দরগুলান দ এর জায়গায় গ বলিতেছে !


নব্বইয়ের স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনের বিখ্যাত ছাত্রনেতা আমাদের আসনে এমপি পদে দাঁড়াইলেন ! আমরা রোমাঞ্চিত ! দলের জন্য নহে, তিনি ছিলেন আমাদের তরুণ প্রজন্মের ক্রেজ ! মনপ্রাণ দিয়া তাহারে সাপোর্ট করিলাম ! আমাদের স্কুলে আসিয়া তিনি বক্তৃতা দিয়া গেলেন ! সামনাসামনি দেখিয়া খুব একটা ইমপ্রেস হইলাম না ! দাত উঁচু ! কথার মধ্যে গরম নাই , জ্বালা নাই। এ আবার নেতা নাকি ! যাহা হউক বিখ্যাত ছাত্রনেতা আমাদের এমপি হইবে ইহা ভাবিয়াই সন্তুষ্ট হইলাম ! মনে প্রাণে সমর্থন করিলাম ! তাহার বিশাল নির্বাচনী মিছিল দেখিয়া আমরা আশান্বিত হইলাম ! প্রতিপক্ষরা ফুঁয়ে উড়িয়া যাইবে ! নির্বাচনী ডামাডোল এতদূর গড়াইয়াছিলো যে আমাদের মুখে মুখে ছড়া শোনা যাইতো। আমাদের এলাকার এখনকার অন্যতম কোটিপতি আমাদের গাড়া (উপনাম ) হাততালি দিতো আর একখানা ছড়া পড়িত, আমরাও হাততালি বাজাইয়া সঙ্গত দিতাম ! কেমনে জানি ছড়াটি আমার মাথার মধ্যে ঢুকিয়া যায় ! আমিও তাহার সাথে সুর করিয়া পড়িতাম---

"সরোপ আর আনোয়ার
ওরা দুজন জানোয়ার !
ভোট দিব ফুটুক
উটুক আর না উটুক
নাম তো ফুটুক ! "

ইহাকে নন্সেস রাইম বলা যাইতে পারে। কারণ , গাড়াকে যতবার জিজ্ঞাসা করিয়াছি সরোপ আর আনোয়ার কে , ও বলিয়াছে , কেউ না ! তারমানে কাল্পনিক চরিত্র।হয়তো কেহ সত্যিই ছিল ! তাহার পর মুখে মুখে ছড়াইয়াছে ! সরোপ নামটিও অদ্ভুত লাগে।সম্ভবত শরীফ থেকে সরোপ আসিয়াছে ! ফুটু হইলো ছড়াকারের পছন্দের প্রার্থী ! যাহা হউক ফুটু জিতিয়াছিলো কিনা জানিনা, আমাদের ছাত্রনেতার নাম ফোটা ছাড়া আর কিছু হয় নাই ! অবশ্য আমার মন পুড়িয়াছে ! প্রমান হইয়াছে আমি যাহাকে সমর্থন করি সে হারিয়া যায় ! তাই ভাবছি এবার নির্বাচনে কাহাকেও সমর্থন করিব না ! আর হারিতে চাহি না !


ছবিসূত্রঃ অন্তর্জাল।

মন্তব্য ৪৬ টি রেটিং +৪/-০

মন্তব্য (৪৬) মন্তব্য লিখুন

১| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৩৮

নতুন নকিব বলেছেন:



Good thinking! Thanks.+++

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৪৬

টারজান০০০০৭ বলেছেন: ধন্যবাদ। নকিব ভাই হজে কবে যাইতেছেন ? দোআ চাই !

২| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৩৯

সনেট কবি বলেছেন: খুব মজা পেলাম।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৫০

টারজান০০০০৭ বলেছেন: কবিসাব ! আমি অপেক্ষায় আছি কবে আমারে নিয়া সনেট লিখিবেন ! ভয়ও করিতেছি অবশ্য ! জংলী মানুষ ! বনের রাজা ! পাতলুন ছাড়া দৃষ্টিগ্রাহ্য কিছু নাই ! বর্ণনা কি হইবে কে জানে !!

৩| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৫১

ইব্‌রাহীম আই কে বলেছেন: কিছু ব্যপার হাসির ছিল। পড়ে অনেক ভাল লাগলো।

আপনার সাথে আমার একটা মিল আছে মনে হচ্ছে, রাজনীতি তে পলিটিক্স ঢুকার পর আমি আর রাজনীতি বুঝতেছিনা!

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৫৭

টারজান০০০০৭ বলেছেন: আমিতো বনের রাজা টারজান, সভ্যতাই বুঝিনা, পাতলুন পইড়া থাকি, রাজনীতিতো দূরের কথা !

৪| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৫১

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: মার্কা হিসাবে বাচ্চাদের ডায়াপার কী আছে?

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:০৮

টারজান০০০০৭ বলেছেন: আন্ডুতো আছেই , দেখি নির্বাচন কমিশনরে কইতে হইবে ডায়াপার এড করিতে, এতো ফেমাস একখানা বিষয় মার্কা হইবে না তাহা কি হইতে পারে !!

৫| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৫৭

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: চমৎকার একখানা রচনা। পড়িয়া আনন্দ পাইলাম।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:০৯

টারজান০০০০৭ বলেছেন: ধইন্যবাদ , জুনায়েদ বাংলাদেশী !

৬| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:১৬

আখেনাটেন বলেছেন: হা হা হা। নির্বাচন আসলেই কিছু মানুষের মনে হয় গরুর খুরা রোগে অাক্রান্ত হয়। এগুলোরে অ্যান্থ্রাক্সের ভ্যাকসিন দেওন দরকার।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:৩৪

টারজান০০০০৭ বলেছেন: কি যে বলেন , বাংলাদেশে নির্বাচনের চেয়ে বড় কোন বিনুদুন নাই ইহা আমি হলপ করিয়া বলিতে পারি ! একসময় রাজনীতি মজারই ছিল ! এখনকার মতন হিংস্র ছিল না ! কাম্পাসেরই একদল বলিত :

নেত্রী মোদের হাসিনা
গর্বে মোরা বাঁচিনা !

আরেকদল বলিত :

নেত্রী মোদের খালেদা
গর্ব মোদের আলাদা !

সেসব মজা কোথায় গেল ! এখন খালি মারামারি , খুনোখুনি ; কোন মজা নাই ! এর চাইতে তত্ত্বাবধায়ক আমল শতগুনে ভালো ছিল !

৭| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:১৬

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: স্বাগতম আফ্রিকান রাজা।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:৩৬

টারজান০০০০৭ বলেছেন: কোথায় ভাইডি ? আমি অবশ্য সুন্দরবন ভার্সন ! :D

৮| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:১৯

শাহিন বিন রফিক বলেছেন:



মজা করিয়া পড়লুম, অবিরত মজা এহার ভিতর লুকিয়া রহিয়াছে, যে জন এই রম্য না পড়িয়া এগনোর করিব, তাঁহার অদ্য দিবসে হাঁসির বেশ ঘাটতি পড়িব।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:৩৯

টারজান০০০০৭ বলেছেন: কি যে বলেন , 5g লইয়া হাসাহাসি এখনো শেষ হয় নাই ! ধন্যবাদ।

৯| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ১২:৩৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: টারজান০০০০৭ ,



বেশ একখানা নির্বাচন রঙ্গ । =p~
তবে নির্বাচনে ভোট দেয়া যখন আপনার মাথার ভিত্রে ঢুকিয়াই গিয়াছে তাই ভোট দিয়ে সমর্থন দেবেন মোরগ-ছোরগ, দোয়াত-বটি-ছাগল-গরু-বান্দর- সব মার্কায় । ভোট আপনার নাগরিক অধিকার তাই সবাইকেই ভোট দিয়ে সমর্থন করা আপনার ঈমানী দায়িত্ব । ;) তার উপরে প্রার্থীরা তো গাইটের ট্যাহা-পয়সাও খরচ করিতেছে , হের একটা পিতিদান আছে না ?? :)
আর টারজান যখন ভয় কি ??????? :-P

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৩:০৯

টারজান০০০০৭ বলেছেন: আমার পরিবর্তে পরোপকারী মহান ভাইজানরা আমার ভোট দিয়া থাকে ! তাহারা ইহা অধিকার মনে করিয়া থাকে !! আমারও পরিশ্রম করিতে হয় না ! তবে এইবার একটু পরিশ্রম করিয়া সবাইরে ভোট দিমু ভাবতাছি ! একবার ভোট দিতে গিয়া বিফদে পড়িয়াছিলাম। সকলেই পরিচিত , সকলেই আমারে ভালা পায় ! শেষে হনুমান পালের বান্দরটারে ভোট দিয়াছিলাম !

১০| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ১:৪৫

আশরাফুল অ্যাস্ট্রো বলেছেন: আপনার নির্বাচন রঙ্গ পড়িয়া আমারও যে নির্বাচনের অভিজ্ঞতা গদ গদ করতেছে.।। একদিন অবশ্যই লিখব ।
আপনার রম্য লেখার হাত টা অসম্ভব সুন্দর ।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৩:১১

টারজান০০০০৭ বলেছেন: লিখিয়া ফেলেন ! নির্বাচনের চেয়ে বড় বিনুদুন আর নাই ! একবার আমাদের এলাকায় স্বামী - স্ত্রী দুইজনে চেয়ারম্যান পদে দাঁড়াইলেন ! আমি ভাবিলাম ইহারা রাতে বিছানায় কি করে ?

ধন্যবাদ !

১১| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ২:০৮

এহতেশাম আহমেদ বলেছেন: অনেক মজাদার পোষ্ট।
বড় ভাইদের মুখে শুনেছিলাম যে, আমাদের এলাকায় একবার দুইজন মহিলা প্রার্থী আর একজন পুরুষ প্রার্থী নির্বাচনে অংশ নিয়েছিল। তো এলাকার দুষ্টু ছেলেরা শ্লোগান বানিয়েছিল....
"এক বলদ, দুই গাই
কুলা মার্কায় ভোট চাই।"

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৩:১৭

টারজান০০০০৭ বলেছেন: পোলাপাইনতো সেইরাম পাঙ্খা !

তা কুলা মার্কাটা গাই না বলদের আছিল ?

নানাবাড়িতে একবার জাতীয় নির্বাচনে পোলাপাইন স্লোগান দিল.........

খালেদা জিয়া এইট পাশ
গণতন্ত্রের সর্বনাশ !! :P

১২| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ২:৪৫

রাজীব নুর বলেছেন: সব কিছু নষ্ট দের দখলে চলে গেছে।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৩:১৮

টারজান০০০০৭ বলেছেন: আমরাও নষ্ট ! খালি দখলে নাই , এই যা !

১৩| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৩:০১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:


নির্বাচনী রঙ্গময় রম্যটি ভাল লেগেছে ।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৩:১৯

টারজান০০০০৭ বলেছেন: ছবি দেখিয়া নোয়াখালীর কেহ কিছু কহিল না , এইটাই শান্তনা ! :D

১৪| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৪:৪৬

এহতেশাম আহমেদ বলেছেন: কুলা মার্কা টা একজন মহিলার ছিল। আর ইন্টারেস্টিং ব্যাপার হলো ঘটনাটি কিন্তু আশি'র দশকের।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৩১

টারজান০০০০৭ বলেছেন: উরিব্বাশ ! আশির দশকের ! কুলা অবশ্য নারীকুলের সাথেই যায় !

১৫| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৪:৫৩

এহতেশাম আহমেদ বলেছেন: তার মানে কিন্তু সেই পোলাপানের বয়স এখন কম হলেও ৫০ এর উপরে। এইবার বুঝেন, পাংখা পোলাপাইন সব যুগেই থাকে।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৩৮

টারজান০০০০৭ বলেছেন: তাই ! আমগো বাপ্ চাচারাও কম পাঙ্খা আছিলো না ! এখন সব সাধু হইয়া গেছে !আমগো পরের প্রজন্মও আমাগো পোঙটামো জানলে পাঙ্খা স্কয়ার কইবে !

১৬| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৫:২৪

চাঁদগাজী বলেছেন:



আপনার অভিজ্ঞতার কাহিনী ভালো লেগেছে।

যিনি হারলে আপনি খুশী হবেন, তাকে সাপোর্ট করেন।

২৭ শে জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:২২

টারজান০০০০৭ বলেছেন: এই প্রস্তাব এতক্ষন পরে আসিল দেখিয়া আশ্চর্য হইলাম ! আমিতো ভাবিয়াছিলাম জামাত আর বিম্পি কইবে আওয়ামীলীগরে সমর্থন করেন ! আওয়ামীলীগ কহিবে তাহাদের করিতে !

আপনি কাহাকে সাপোর্ট করিতে বলেন ?

১৭| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ রাত ৮:২৬

বিচার মানি তালগাছ আমার বলেছেন: আপনার নির্বাচনী ছড়ার স্লোগানগুলো মজার আর আপনার স্মৃতিচারণাও চমৎকার...

২৮ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:১৬

টারজান০০০০৭ বলেছেন: হে হে হে ! নির্বাচনী স্লোগান লইয়াই একখানা পোস্ট দেওন যায় ! ছেলেবেলার ছড়াগুলান লইয়াও একখানা পোস্ট দেওনের ইচ্ছা আছে ! ধন্যবাদ !

১৮| ২৭ শে জুলাই, ২০১৮ রাত ৯:৪১

সনেট কবি বলেছেন: আপনাকে নিয়ে সনেট পোষ্ট করা হয়েছে তবে আপনার নজরে এসেছে কিনা জানিনা।

২৮ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:১৮

টারজান০০০০৭ বলেছেন: নজরে এসেছে ! তবে ব্যাস্ততার কারণে মন্তব্য করিতে পারি নাই ! আপনাকে ধন্যবাদ কবি !

১৯| ২৮ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ৯:৫৪

নতুন নকিব বলেছেন:



হজ্বে তো গতবছর গিয়েছিলুম। এবছর আর যাওয়া হচ্ছে না। আল্লাহ পাক যদি দয়া করে তাওফিক দেন, সামনে উমরাহর উদ্দেশ্যে যাওয়ার ইচ্ছে রয়েছে। আপনাদের দুআ কামনা করছি। অধম আপনাদের জন্য অবিরত কল্যানপ্রার্থী। আল্লাহ পাক আপনাদের কল্যান করুন। দেশবাসীকে ভাল রাখুন।

দুআ করি, আগত জাতীয় নির্বাচন অবাধ, সুষ্ঠু এবং গ্রহনযোগ্য হোক। ভিনদেশী কূচক্রীদের প্রভাবমুক্ত ফেয়ার ইলেকশন হোক। মানুষের মত প্রকাশের স্বাধীনতা, ভোটাধিকারসহ গনতান্ত্রিক সকল নাগরিক ন্যায্য অধিকার তারা ফিরে পান- সেটাই চাই।

অনেক ভাল থাকবেন।

২৮ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:২০

টারজান০০০০৭ বলেছেন: আপনার দোয়ায় আমিন বলিতেছি ! তবে দেশের রাজনীতি , নির্বাচন লইয়া আতঙ্কেই আছি ! রাজায় রাজায় যুদ্ধতো হইবে ! আমাদের উলুখাগড়ার জীবন না যায় , এই দোআ করিতেছি !

২০| ২৮ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:১১

মোস্তফা সোহেল বলেছেন: রম্য ভাল লাগিয়াছে।

২৮ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ২:২২

টারজান০০০০৭ বলেছেন: ইহা রম্য নহে , রঙ্গ !! :D
ভালো লাগিয়াছে শুনিয়া প্রীত হইলাম ! কেমন আছেন সোহেল ভাইজান ?

২১| ২৯ শে জুলাই, ২০১৮ রাত ৯:৫১

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন:
নির্বাচন শিক্ষিত মানুষের জন্য। আমি শিক্ষিত নহি। আামার কোন নির্বাচনের দরকার দেখি না।

৩০ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ৯:১১

টারজান০০০০৭ বলেছেন: বাস্তবিকই নির্বাচন খুব অর্থবহ নহে ! সাধারণ মানুষ সুচিন্তিত মতামত দিতে পারে না ! তাহাদের সহজেই প্রভাবিত করা যায় ! একারণেই বুঝি গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রগুলোতেও দ্বিকক্ষবিশিষ্ট সংসদ দেখা যায় ! ভারতের লোকসভার সিদ্ধান্ত বিধান সভায় , আমেরিকায় কংগ্রেসের সিদ্ধান্ত সিনেটে যাচাই করা হয় ! ইহার অর্থ সাধারণ মানুষের মতামতের মধ্যে ভেজাল থাকে , তাই ফিল্টারের ব্যবস্থা ! ওমর রা. এর শাসনকালেও দুইটি মজলিশ ছিল ! মজলিশে আম, মজলিশে খাস !

ম্যাংগোপিপল হিসেবে আমিও নির্বাচনকে প্রহসন ছাড়া আর কিছু ভাবি না ! অনর্থক মনে হয় ! তবে নির্বাচনী রঙ্গ ভালো লাগে ! ধন্যবাদ !

২২| ২৯ শে জুলাই, ২০১৮ রাত ৯:৫৫

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন: জালালাবাদ ( সিলেট শুনলে কেমন যেন হিন্দুয়ানী মনে হয়) মহান নেতা ছক্কা ছয়ফুর আমার প্রিয় নেতা ছিলেন। রাষ্ট্রপতি থেকে শুরু করে সব ধরনের নির্বাচিন তিনি করিয়াছিলেন। এক বার তিনি সম্ভবত উপজেলার চেয়ারম্যান পদে বিজয় লাভ করিয়াছিলেন। হাল ছাড়িতে নাই। এক বার না পারিলে দেখ শতবার।

৩০ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ৯:২৭

টারজান০০০০৭ বলেছেন: কোথায় জানি শুনিয়াছিলাম শিল হট্ট হইতেই সিলেট নাম আসিয়াছে ! ইহার ইতিহাস বিস্তারিত জানি না !

ছক্কা সয়ফুর সম্পর্কে আমি হাসি ঠাট্টাই বেশি শুনিয়াছি। বিশেষ করিয়া রুদ্রের কাছে ছেকা খাইয়া তসলিমা নাসরিন যখন পুরুষ বিদ্বেষী হইয়া গেল, পাগলামি করিয়া ধর্মরেও আক্রমন করিয়া বসিল, সয়ফুর বলিয়াছিলেন তাহার স্বামী নাই হেতু এমন করে ! আমি তাহাকে বিবাহের প্রস্তাব দিতেছি !

তবে নিচের এই রিপোর্ট পড়িয়া তাহার সম্পর্কে ভালো কিছুই জানিতে পারিলাম ! ধন্যবাদ আপনাকে !

সিলেটের ছক্কা ছয়ফুর!

২৩| ০৮ ই আগস্ট, ২০১৮ রাত ১০:৩৯

উদাসী স্বপ্ন বলেছেন: সিরিয়াসলি? জাইঙ্গা ???

০৯ ই আগস্ট, ২০১৮ সকাল ১০:৩৬

টারজান০০০০৭ বলেছেন: জাইঙ্গা যে খুব পপুলার মার্কা ইহাতে কোন সন্দেহ নাই ! (মোটামুটি সকলেই ব্যবহার করে কিনা !!) তবে ইহা সত্যই কাহারো নির্বাচনী মার্কা হইয়াছিল কিনা তাহা নোয়াখালীর ব্লগাররা ভালো বলিতে পারিবেন !!

এই মার্কায় নির্বাচন করিলে জয়ের সম্ভাবনা প্রবল বলিয়া মনে হয় ! নোয়াখালীর উন্নয়নতো ইহাই বলে !! =p~ =p~ =p~ =p~

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.