নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

ঢাবিয়ান

ঢাবিয়ান › বিস্তারিত পোস্টঃ

করোনা মোকাবেলায় এই বিশ্বের অন্যান্য দেশ এবং আমাদের দেশ

০২ রা ডিসেম্বর, ২০২০ বিকাল ৪:৫০

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরো ৩৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মৃত্যু বেড়ে হয়েছে ৬ হাজার ৭১৩ জন।
একই সঙ্গে নতুন করে করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে দুই হাজার ১৯৮ জন। এতে শনাক্ত বেড়ে দাঁড়িয়েছে চার লাখ ৬৯ হাজার ৪২৩ জন।বুধবার বিকালে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়। মৃত্যূসংবাদ যে কখনো এত স্বাভাবিক সংবাদে পরিনত হতে পারে তা এবারের এই মহামারী না এলে জানা হত না ।প্রতিদিন ফেসবুক খুললেই অজস্র পরিচিত, অপরিচিত মানূষের মৃত্যূসংবাদ শুনে দিনের শুরু হয়। এও এক প্রকার যুদ্ধই , ভয়ঙ্কর এক জীবানুর বিরুদ্ধে যুদ্ধ। বিশ্বের সকল দেশ জনগনকে কিভাবে এই জীবানুর হাত থেকে রক্ষা করবে সেই লড়াইয়ে ব্যস্ত।

এই ভয়ানক যুদ্ধে স্বস্তির সংবাদ নিয়ে এসেছে যুক্তরাস্ট্রভিত্তিক মোডের্না ও ফাইজার , ৯৫% সুরক্ষা দিতে সক্ষম ভ্যক্সিন আবিষ্কার করে। অক্সফোর্ডের ভ্যকসিন ৭০% সুরক্ষা দিতে সক্ষমতার কথা জানিয়েছে তবে ২০শে নভেম্বর ভারতের সিরাম ইন্সটিটিউটে প্রস্তুতকৃত অক্সফোর্ডের ট্রায়াল ভ্যাকসিন নিয়ে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়ে, সিরাম ইনস্টিটিউটের কাছে পাঁচকোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দাবি করলেন তামিলনাড়ুর বছর চল্লিশের এক ব্যক্তি।

আজকের প্রায় সকল গনমাধ্যমের নিউজ হেডলাইন হচ্ছে ফাইজার/বায়োএনটেকের আবিষ্কার করা করোনা ভাইরাসের টিকা অনুমোদন দিয়েছে বৃটেন।আগামী সপ্তাহ থেকে এটি বিতরণ শুরু হবে। এক্ষেত্রে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে যেসব মানুষকে রাখা হয়েছে কয়েকদিনের মধ্যে তাদের ওপর প্রয়োগ করা হবে এই টিকা। এরই মধ্যে এই টিকার ৪ কোটি ডোজ অর্ডার করেছে বৃটেন। এ খবর থেকে বোঝা যাচ্ছে খোদ ব্রিটেনই নিজ দেশের আবিস্কৃত অক্সফোর্ডের টিকা জনগনকে দিচ্ছে না। উন্নত প্রায় সব দেশগুলোই এখন ফাইজার ও মোডের্নার টিকা দেবার সিদ্ধান্ত নিচ্ছে যেহেতু এদের টিকার সাইড এফেক্ট সম্পর্কে কিছু শোনা যায়নি এবং সুরক্ষা ৯৫%। সিঙ্গাপুর, হংকং, সাউথকোড়িয়া ইত্যাদি দেশগুলো এখনই ভ্যক্সিন দেবার ব্যপারে কোন সিদ্ধান্তে আসেনি। স্বাস্থ্যবিধি ও ভ্রমন নিশেধাজ্ঞার মাধ্যমে এই দেশগুলোর অভ্যন্তরে কোভিড পুরোপুরি নিয়ন্ত্রনে। তাই ভ্যকাসিনের কার্যকারীতা ও সাইড এফেক্ট সম্পর্কে পুরোপুরি নিশ্চিত না হয়ে এই দেশগুলো জনগনকে কোন টিকা দেবে না।

একমাত্র আমাদের দেশের গনমাধ্যমের খবর দেখে বোঝার উপায় নাই যে কোভিড সেখানে বড় কোন সমস্যা। একদিকে মানুষ মরছে, অন্যদিকে মানুষ ইচ্ছেমত স্বাস্থবিধি না মেনে ঘুরে বেড়াচ্ছে, চাকুরি হারিয়ে প্রচুর মানুষের গ্রামে ফিরে যাচ্ছে, পরিবারের প্রধান উপার্জনক্ষম ব্যক্তির মৃত্যূতে পরিবারগুলো কিভাবে চলছে তার খবরই বা কে রাখে! স্বাস্থবিধি বাস্তবায়ন, ফ্রি মাস্ক, অক্সিজেন সরবরাহ নিশ্চিতকরন , টীকা সরবরাহ এইগুলো কোন সমস্যা নয় এই দেশে। এই দেশে এখন মুল সমস্যা ভাস্কর্য সমস্যা!!!!

মন্তব্য ১১ টি রেটিং +২/-০

মন্তব্য (১১) মন্তব্য লিখুন

১| ০২ রা ডিসেম্বর, ২০২০ বিকাল ৫:০৫

শাহ আজিজ বলেছেন: হুম , আজকের লিডিং নিউজ আমেরিকান ভাক্সিন ইংল্যান্ডে । যাক এইসব বিজ্ঞানীরা একধরনের সুরক্ষা আবিস্কার করেছেন যারা পুরস্কৃত হবেন সবার কাছে । প্রার্থনা তাদের জন্য করজোড়ে ।

০৩ রা ডিসেম্বর, ২০২০ দুপুর ১২:৫০

ঢাবিয়ান বলেছেন: সবার প্রাথর্না একটাই যেন ভ্যকসিন কার্যকরী হয়এবং নতুন কোন দুঃসংবাদ তৈরী না হয়

২| ০২ রা ডিসেম্বর, ২০২০ বিকাল ৫:৪১

আমি সাজিদ বলেছেন: আমরা হচ্ছি ভাই সম্রাটের বংশধর। আমরা চাই আমরা বসে থাকবো আর চায়না এসে বাংলাদেশকে চায়নার মত বানিয়ে দিয়ে যাক৷জাপান এসে বাংলাদেশের উন্নয়ন করে যাক। আমেরিকা এসে আমাদের এটা করে দিয়ে যাক। অমুক এসে সেটা করে দিয়ে যাক। এই অভ্যেসের কারনেই -
আমরা এটাও চাই আমরা সবাইকে ফরমায়েশ দিব, আর সবাই ভ্যাক্সিন বানিয়ে আমাদের দিয়ে যাক। আমাদের মিডিয়া গুলো নিয়ন্ত্রিত হয়ে ডান্ডার মারের ভয়ে সেটা প্রচার করুক।

০৩ রা ডিসেম্বর, ২০২০ দুপুর ১২:৫৩

ঢাবিয়ান বলেছেন: একটা ব্যপার নিশ্চিত যে রাজনীতিবিদেরা সবাই খোদ লন্ডনের হাস্পাতালে বসে ভ্যক্সিন নেবে। আর জনগনএর জন্য দেয়া হবে বঙ্গভ্যক

৩| ০২ রা ডিসেম্বর, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:১৬

ফয়সাল রকি বলেছেন: তবে ব্রিটেনের ভ্যাক্সিন অনুমোদন দেয়াটা কিন্তু যুগান্তকারী সিদ্ধান্ত।

০৩ রা ডিসেম্বর, ২০২০ দুপুর ১২:৫৬

ঢাবিয়ান বলেছেন: কোভিড নিয়ত্রন করতে পারছে না ব্রিটেন। তাই অনুমোদন না দিয়ে উপায় কি? তারওপড় অক্সফোর্ডের ভ্যক্সিনের অপড় ভরসা করা যাচ্ছে না।

৪| ০২ রা ডিসেম্বর, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:২১

চাঁদগাজী বলেছেন:




করোনা কিংবা ভ্যাক্সিন নিয়ে দেশের শিক্ষিত সমাজ জাতির পক্ষে কিছু বলেনি, করেওনি

০৩ রা ডিসেম্বর, ২০২০ দুপুর ১:০০

ঢাবিয়ান বলেছেন: একমত না হয়ে উপায় নাই। শিক্ষিত জনগোশষ্ঠির আচরনও এখন দেশে চুরান্ত অশিক্ষিতের মত। মাস্ক ছাড়া যত্রতত্র বাইরে যাচ্ছে, কক্সবাজার বেড়াতে যাচ্ছে, গেট টুগেদার করছে, জনসমাগম করে বিয়ে স্বাদীর প্রোগ্রাম আয়োজন করছে অথচ করোনা সংক্রমনের হার উর্ধমুখী।

৫| ০৩ রা ডিসেম্বর, ২০২০ রাত ১২:১০

রাজীব নুর বলেছেন: আমরা শুধু অন্যের দিকে তাকিয়ে থাকি। আমরা তাকিয়ে থাকা জাতি।

৬| ০৩ রা ডিসেম্বর, ২০২০ সকাল ৯:৪৭

গফুর ভাই বলেছেন: জন্মই যে দেশে পাপ.....

৭| ০৩ রা ডিসেম্বর, ২০২০ দুপুর ১২:৫৭

শাহ আজিজ বলেছেন: মডার্না গতকাল আবেদন করেছে ইউ এস অ্যাড এর কাছে অনুমোদন পাওয়ার জন্য ।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.