নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

\"Thus let me live, unseen, unknown/ Thus unlamented let me die/ Steal from the world and not a stone/ Tell where I lye \"

মলাসইলমুইনা

Reading maketh a full man; conference a ready man; and writing an exact man. **** -Sir Francis Bacon

মলাসইলমুইনা › বিস্তারিত পোস্টঃ

হাইবারনেশন

২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:১৬



এই বছরের প্রথম স্নো ফল (সপ্তাহ তিনেক আগে হবে)

ক'দিন আগেও সামারের আলোঝলমল দিনগুলোতে চারদিক হিল ভীষণ সবুজ । সকালে বাসা থেকে বেরুলেই বা সন্ধ্যায় ফেরার পথে গাছের ডাল পাতার আড়ালে সূর্য উঁকি দিতো । আশপাশটা ছিল খুব সবুজ । সামারের আলোঝলমল দিনগুলো শেষে এলো ফল --শরৎ । উজ্জ্বল আলো আর রঙের মালা গলায় পরে আসা ফলের দিনও এক সময় শেষ হলো । এখন এসেছে তুহিন তীক্ষ শীতের পালা । কিছু দিন হলো স্নো পড়ছে এখানে ।চারদিক শুভ্র স্নোতে সাদা । সারা বছর এখানকার পার্কে, ওক. ম্যাপেল বনের গাছের আড়ালে ঘুরে বেড়ানো হরিণগুলো আর নেই ।গাছের ডালে কাঠ বেড়ালির ছুটোছুটি খেলা নেই । বাসার কাছেই লেকটাতে নেই পাখিদের কলকণ্ঠ । স্নোর সাথে সাথেই লেকের বুনোহাঁসগুলো দূরে কোথাও উড়ে গেছে একটু উষ্ণতার খোঁজে ।








শরতের পাতা ঝরার সাথে এসেছে শীত




গত সপ্তাহের স্নো ফল --চারদিক ঢেকে গেছে স্নোতে (সকাল আর সন্ধ্যায় তোলা স্নো-র ফটো )


স্নো ঢাকা তীব্র শীতের এই সকালে সব লেখালেখি থেকে ছুটি নিয়ে গাছের ছোট্ট কুঠুরিতে ঘুমিয়ে থাকা কাঠবিড়ালিগুলোর মতো আমারও কেন যেন একটু হাইবারনেশনে যেতে ইচ্ছে করছে ----

মন্তব্য ২৫ টি রেটিং +৭/-০

মন্তব্য (২৫) মন্তব্য লিখুন

১| ২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৬

শাহিন-৯৯ বলেছেন:


এত ঠান্ডার ভিতর থাকেন কি করে!!!
আন্তরিক ধন্যবাদ চমৎকার কিছু ছবি শেয়ার করে দেখার সুযোগ দেওয়ার জন্য।

২২ শে নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৯:৫৬

মলাসইলমুইনা বলেছেন: শাহিন-৯৯,
অনেক দিন শীতের জায়গায় থেকে থেকে কি আর বাঙাল আছি ? এস্কিমো হয়ে গেছি ।
কখনো দরকার পড়লে অন্যদের বলবেন যে মলাসইলমুইনা একজন এস্কিমোকে আপনি চেনেন ।
শিওর থাকবেন, মিথ্যে বলা হবে না তাতে ।

২| ২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৯

রূপম রিজওয়ান বলেছেন: দারুণ লাগলো ছবিগুলো এবং বর্ণনা।+
শীতপ্রধান দেশগুলোতে ঘটা করে শীতকাল নেমে এলে শীতের তীব্রতা যে কি ভয়াবহ হয়,তা গায়ে না সয়ে বুঝা সম্ভব না।বিশেষত আমাদের দেশের মত উষ্ণমন্ডলীয় অঞ্চল থেকে যারা যায়,তাদের তো....। হিটারসহ রুমে থাকলে রক্ষে!

৩| ২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৪৭

চাঁদগাজী বলেছেন:


হাইবারনেশন জীবনীশক্তি বাড়ায়ে দেয়, মনে হয়।

২২ শে নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:৩৭

মলাসইলমুইনা বলেছেন: চাঁদগাজী সাহেব,
ওয়েল কাম ব্যাক ----ভেরি হ্যাপি টু সি ইউ ।

৪| ২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৫৭

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: ছবিগুলো সুন্দর।

৩০ শে নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৪৬

মলাসইলমুইনা বলেছেন: জুনায়েদ বি রাহমান,

থ্যাংকস এ লট ।

৫| ২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:২৩

রাজীব নুর বলেছেন: তীব্র ঠান্ডা!!!

৩০ শে নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৪৮

মলাসইলমুইনা বলেছেন: রাজীব নুর,
জ্বি ---- খুবই ঠান্ডা । শৈত্য প্রবাহে মৃত্যুর মুখোমুখি অবস্থা ধরণের ওয়েদার ।

৬| ২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:২৮

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: হাইবারটেনশনই বটে। ছবিগুলো দেখতে ভারী চমৎকার। কিন্তু বাস্তবে ঐ পরিবেশে থাকাটা ঠিক ততটাই প্রাণান্তকর।
পোস্টে ভালোলাগা। ++
শুভকামনা জানবেন।

৩০ শে নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৪২

মলাসইলমুইনা বলেছেন: পদাতিক চৌধুরী,

ঠিক বলেছেন ।কিন্তু মোগলের সাথে খানা মোগলাই । আমারও সেই দশা ।
ওই যে প্রথম কমেন্টের উত্তরে বললাম না এতদিন এ'দেশে থাকতে থাকতে কি আর বাঙালি আছি পুরো এস্কিমো হয়ে গেছি ।
আর তাই মনে হয় বেঁচে আছি । নইলে এই তীব্র শীতে থাকাটা কষ্টকর খুবই ।বিশেষ করে প্রতিদিন এই স্নোতে ড্রাইভিং করতে খুব বিরক্তি লাগে ।পোস্ট পড়ার ও মন্তব্যের জন্য অনেক ধন্যবাদ ।

৭| ২২ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৩:০৮

রিম সাবরিনা জাহান সরকার বলেছেন: প্রথমত, চাঁদ্গাজী স্যারকে দেখে স্বস্তির হাঁপ ছাড়লাম। মনে মনে সিঁটিয়ে ছিলাম, আবার কি হল ওনার?
দ্বিতীয়ত, আমাদের এখানে কাঠবিড়ালীরা এখন পুরো দমে হেজেলনাট কুড়িয়ে যাচ্ছে। মানে শীতের আসল ঝাঁকি এখনো আসে নি। কিন্তু মানুষ হবার সুবিধা হচ্ছে কষ্ট করে বাদাম কুড়াতে হয় না। তাই সময় বাঁচে। সে সময়ে হাইবারনেশনে থেকেও কম্বল থেকে মাথা উঁচিয়ে দিব্যি আঙ্গুলের ডগায় লেখালিখি চালিয়ে যাওয়া যায়।

০১ লা ডিসেম্বর, ২০১৯ ভোর ৬:২৩

মলাসইলমুইনা বলেছেন: রিম সাবরিনা জাহান সরকার,
হাহাহা ----।
বললেনতো বেশ যে কিন্তু মানুষ হবার সুবিধা হচ্ছে কষ্ট করে বাদাম কুড়াতে হয় না। তাই সময় বাঁচে। সে সময়ে হাইবারনেশনে থেকেও কম্বল থেকে মাথা উঁচিয়ে দিব্যি আঙ্গুলের ডগায় লেখালিখি চালিয়ে যাওয়া যায়। তাহলে নতুন লেখা কোথায় আপনার ? নতুন লেখাতো দেখছি না ? নতুন কিছু একটা লিখুন । হাসি স্বাস্থ্যকর । আপনার মারাত্মক হাস্যরসাত্মক লেখা দিয়ে ব্লগ ডে -র আগে ব্লগারদের খিল খিল হাসি উদ্রেকের সাথে স্বাস্থ্য সমুন্নত রাখায় সাহায্য করে জাতীয় ব্লগীয় দায়িত্ব পালনের মাধ্যমে ব্লগ ডে সাফল্য মন্ডিত করতে সক্রিয় হন !! ভালো থাকবেন । ও লেখা পরে মন্তব্য করার জন্য অনেক ধন্যবাদ ।

৮| ২২ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৩:১৯

সোহানী বলেছেন: গাজি ভাইকে দেখে ভালো লাগছে… উনাকে না দেখে ব্লগের সবাই অস্থির হয়ে পড়েছিল তা কি উনি জানেন????

হাইবারনেশানে কি যাবার উপায় আছে :(( :(( :(( .. তাইলে খামু কি????????

০১ লা ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৫৩

মলাসইলমুইনা বলেছেন: হাহাহা ----খাওয়া দাওয়ার চিন্তা করতে হবে না আর । হাইবারনেশনে যাবার দরকারি নেই । চাঁদ গাজী সাহেব হ্যাস রিটার্নেড ! এখন ব্লগে থাকলেই ভালো করে দিন গুজরান হবে । ভালো থাকুন ।হ্যাপি থাঙ্কস গিভিং ।

৯| ২২ শে নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:৪৫

জুন বলেছেন: আমিও হাইবারনেশনে যেতে চাই কিন্ত সংসার আমাকে দেয়না সেটুকু অবসর :-/
ছবি দেখে খুব ভালো লাগলো বিশেষ করে ৪ নম্বরটা :)

০২ রা ডিসেম্বর, ২০১৯ সকাল ৭:৪০

মলাসইলমুইনা বলেছেন: দেরিতে হলেও আপনার পরিবারের সবার জন্য হ্যাপি থ্যাংকস গিভিংয়ের শুভেচ্ছা প্লাস । প্লাসটুকু হলো আপনাকে হাইবারনেশনে না যেতে দেবার জন্য । আপনি হাইবারনেশনে থাকলে নানা রংয়ে পাখা মেলে আপনার জানালায় আসা অতিথিদের কি হবে ? অথবা কন্যাকুমারিকা থেকে এন্টার্টিকা পর্যন্ত ঘুরে ঘুরে আপনার লেখা একমেবাদ্বিতীয়ম ভ্রমণ ব্লগগুলোই বা কে লিখবে ? তাই হাইবারনেশনে যাবার কোনোই দরকার নেই, ব্লগেই আরো অনেক জয়জয়ন্তী কাটিয়ে দিন অসাধারণ সব লেখায়, রেখায় ভ্রমণ ব্লগের জাদুকরীতে ।অনেক ধন্যবাদ লেখাটা পড়া আর মন্তব্যের জন্য ।

১০| ৩০ শে নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:৩৪

জাহিদ হাসান বলেছেন: এই রকম ঠান্ডার ছবি দেখলেই আমার হাচি আসে- হেই চ্চো....হেই চ্চো!

০২ রা ডিসেম্বর, ২০১৯ সকাল ৯:২৯

মলাসইলমুইনা বলেছেন: জাহিদ হাসান
হাহাহা ---।
আপনি তাই আমাদের মরুমরুপ্রেমী ইজিপ্টোলজিস্ট ব্লগার । তা ইজিপ্ট নিয়ে রিসার্চ চলছে কেমন ?
ভালো থাকবেন ।

১১| ০১ লা ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:৫৫

মিরোরডডল বলেছেন: In a word Amazing!!!!!!

০৩ রা ডিসেম্বর, ২০১৯ ভোর ৪:২২

মলাসইলমুইনা বলেছেন: মিরোরডডল,
Thanks a lot ---.

১২| ০৩ রা ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:২৮

মনিরা সুলতানা বলেছেন: বাহ ! চমৎকার সব ছবি !
ঢাকায় তো শীতের হাঁটি হাঁটি পা পা চলছে..
আপনার ছবিতে না হয় কিছুক্ষণ শীত পোহাই

০৪ ঠা ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১:৫৭

মলাসইলমুইনা বলেছেন: 'এতদিন কোথায় ছিলেন---' (কাব্য কথা জানিনা তাই বনলতা সেনের মতো পাখির বাসার মতো চোখ তুলে নয় বা কাব্যকন্ঠে কোনো প্রশ্ন নয় প্লেন এন্ড সিম্পল প্রশ্ন আমার ) ? ও সেই সাথে অবশ্যই লেখাটাতে মন্তব্যে ধন্যবাদ ।

১৩| ০৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ২:১০

মনিরা সুলতানা বলেছেন: নাটোরের আশেপাশে ই ছিলাম :)
ফাইনালি দেশে মুভ করেছি, সেসব নিয়েই ব্যস্ত সময়; এরপর ছিল দেশ থেকে লগ ইন সমস্যা সব মিলিয়ে এতদিন কেটেই গেলো।
আশা করছি ভালো ছিলেন।

০৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ ভোর ৬:৫২

মলাসইলমুইনা বলেছেন: মনিরা সুলতানা,
স্নো ঢাকা শীতেও বসন্ত বাতাসের দোলা লাগলো আপনার ব্লগে ফিরে আসতে ।
আশাকরি রিলোকেশনের সব ব্যস্ততা সামলে নিয়েছেন এখন ।
সময়ত বসে থাকে না চলেই যায় এক রকম ।
তাই ইনশাল্লাহ ভালই আছি বলবো । ভালো থাকুন ।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.