নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

আমার নাম- রাজীব নূর খান। ভাবছি ব্যবসা করবো। ভালো লাগে পড়তে- লিখতে আর বুদ্ধিমান লোকদের সাথে আড্ডা দিতে। কোনো কুসংস্কারে আমার বিশ্বাস নেই। নিজের দেশটাকে অত্যাধিক ভালোবাসি। সৎ ও পরিশ্রমী মানুষদের শ্রদ্ধা করি।

রাজীব নুর

আমি একজন ভাল মানুষ বলেই নিজেকে দাবী করি। কারো দ্বিমত থাকলে সেটা তার সমস্যা।

রাজীব নুর › বিস্তারিত পোস্টঃ

জীবনের গল্প- ১০

১০ ই মে, ২০১৯ রাত ১০:৪৫



আমার বন্ধু শাহেদ। শাহেদ জামাল।
বলল, তুই কি ইশ্বর বিশ্বাস করিস?
আমি সাধারনত এই রকম প্রশ্ন গুলো এড়িয়ে চলি। কোনো রকম ঝামেলায় জড়াতে চাই না। যার যার বিশ্বাস নিয়ে সে থাকুক। আমার কি? আমি বললাম, বন্ধু ধর্ম নিয়ে আমি কোনো আলাপে যাবো না। ধর্ম সম্পর্কে আমার জ্ঞান একেবারেই কম।
শাহেদ বলল, তুই শুধু বল তোর ইশ্বরে বিশ্বাস আছে কি না?
আমি বললাম, বিশ্বাস আছে। অবশ্যই বিশ্বাস আছে।
শাহেদ বলল, আমার বিশ্বাস নেই। আমি ইশ্বরে বিশ্বাস করি না। এক সময় বিশ্বাস করতাম। খুব বিশ্বাস করতাম। নিয়মিত নামাজ পড়তাম। চিল্লায় যেতাম। রোজা রাখতাম। কিন্তু যেদিন ধর্মীয় কিতাব গুলো পড়তে শুরু করলাম। সেদিন থেকেই আমি নাস্তিক হতে শুরু করলাম। এখন আমি ধর্মীহীন হয়ে বেশ ভালো আছি। আনন্দে আছি। ধর্ম তো একটা কুসংস্কার। এর থেকে পৃথিবীর সব মানূষের বাইরে আসা দরকার। তবেই পৃথিবীটা আনন্দময় হবে।

আমি চুপ করে আছি। শাহেদ বেশ উত্তেজিত।
শাহেদ বলল, দিন দিন মানুষ ধর্মহীন হয়ে পড়ছে। ধর্মের প্রতি মানূষের আস্থা কমে যাচ্ছে। উপাসনালয় গুলোতে আজকাল লোকজন কম যায়। তারা বুঝে গেছে ধর্ম তাদের কিছু দিতে পারবে না। একজন আস্তিকের চেয়ে নাস্তিকের লেখাপড়া বেশী। সে বেশী জানে বলেই নাস্তিক হতে পেরেছে। নাস্তিক হতে বড় কলিজা লাগে। আর ধর্মওয়ালা হতে কিছু লাগে না। শুধু মাত্র নির্বোধ হলেই হলো। যে যত নির্বোধ সে তত বড় ধর্মওয়ালা। দরিদ্র লোকেরা ধর্মকে বেশি আকড়ে ধরে। তাদের শেষ হাতিয়ার ধর্ম। ধর্মের মিথ্যা বানোয়াট বুলি তাদের বেশ শান্তি দেয়। জ্ঞানী লোকদের ধর্ম আটকে রাখতে পারেনি।
আমি বললাম, পৃথিবী থেকে কি ধর্ম বিলুপ্ত হয়ে যাচ্ছে? আচ্ছা, ডারউইন কি নাস্তিক ছিলেন?
শাহেদ বলল, আমার কথা মাঝে কথা বলবি না। আমি আগে শেষ করি।

শাহেদ আবার শুরু করলো-
চীন আজ এত উন্নত কেন? তারা ধর্মটাকে আকড়ে ধরে রাখেনি। ধর্ম থেকে পুরোপুরি বেরিয়ে আসতে পেরেছে বলেই তারা আজ উন্নত এক জাতিতে পরিনত হয়েছে। আমি এই দেশে জন্মেছি। এই দেশটাকে অনেক ভালোবাসি। আমাদের দেশটা অনেক দরিদ্র আর দরিদ্র দেশের লোকজন বেশী ধর্মপ্রান হয়। কচ্ছপের মতোন তারা ধর্মটাকে না বুঝেই আকড়ে রেখেছে। আর এই জন্যই এই দেশের উন্নতি হচ্ছে না। দেশের মানুষকে সচেতন করার দায়িত্ব সরকারের। কিন্তু স্বার্থপর সরকার নিজেই ধর্মকে ব্যবহার করে ক্ষমতায় থাকছে। দেশে স্বাধীন হয়েছে। কিন্তু ধর্মওয়ালাদের মন মানসিকতা স্বাধীন হয়নি। তারা আছে অন্ধকারে। তসলিমা নাসরিন আজও দেশে ফিরতে পারছেন না। অথচ এই দেশে কত চোর, ডাকাত আর দূর্নীতিবাজ বহালতবিয়তেই আছে। এই সমাজের লোকজন মুখে মুখে ধর্মের কথা বলেন, অথচ জীবনযাপনে ধর্মীয় বিধান মেনে চলেন না। আসলে বেশির ভাগ লোক ধর্মের মুখোশ পড়ে আছে।

আমি বললাম, বন্ধু একটু জিরিয়ে নে।
এই বিশ্বব্রহ্মাণ্ড এমনিতেই সৃষ্টি হয়েছে, এর কোনো স্রষ্টা নেই?
শাহেদ বলল, আমি আমার কথা শেষ করে নিই। ধর্মকে বিলুপ্ত করতে পারলেই কেবল আমাদের এই পৃথিবী স্বর্গের পৃথিবী হতে পারবে। আনন্দময় একটা পৃথিবী। কোনো হানাহানি থাকবে না। ধর্মগুলো সত্য নয় বরং মিথ্যার সমূদ্র। আগামী পৃথিবী হবে ঈশ্বর-মুক্ত পৃথিবী। বর্তমান বিশ্বে জনসংখ্যার একটা বড় অংশই ধর্মহীন।
ধার্মিকদের মধ্যে ১০০% ভুল ধারনা রয়েছে। তাদের জীবনটা গেল ভুলে ভুলে। পৃথিবী ধ্বংসের আগে কম পক্ষে ৫০ বছর আগে পৃথিবীর সমস্ত মানুষ কঠিন কঠিন অসুখে মারা যাবে। এমন সব জটিল ভাইরাস সারা পৃথিবীময় ছড়িয়ে পড়বে যে মুহুর্তের মধ্যে মানুষ টপাটপ মরতে থাকবে। অদ্ভুর সব রোগ হবে। কোনো চিকিৎসা থাকবে না।

মন্তব্য ২৪ টি রেটিং +০/-০

মন্তব্য (২৪) মন্তব্য লিখুন

১| ১০ ই মে, ২০১৯ রাত ১১:০২

ইব্‌রাহীম আই কে বলেছেন: সাহিত্যসাধকরা তুলনামূলক নাস্তিক হয়। শাহেদের প্রত্যেকটা যুক্তির খন্ডায়ন করা হয়েছে অনেক আগেই।

বেকনের কথাটা অনেকটা এরকম ছিলো, 'স্বল্প জ্ঞানীরা নাস্তিক হয়, আর যারা বিজ্ঞানে পরিপূর্ণ জ্ঞান রাখে তারা আস্তিক হয়। '

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৩৮

রাজীব নুর বলেছেন: ধন্যবাদ মন্তব্য করার জন্য।

২| ১১ ই মে, ২০১৯ রাত ১২:০১

বলেছেন: জ্ঞান মাত্রই মানুষকে ইসলামের পথে নিয়ে আসে। আর অজ্ঞতা বা স্বল্প জ্ঞান মানুষকে কুফরির পথে নিয়ে যায়।

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৩৯

রাজীব নুর বলেছেন: সুন্দর বলেছেন।

৩| ১১ ই মে, ২০১৯ রাত ১২:৫৩

মাহমুদুর রহমান বলেছেন: ধর্ম বলে তুমি চুরি করো না,মানুষ হত্যা করো না নির্বিচারে,অসহায়কে সহায়তা করো,আত্মহনন করো না,অসামাজিক হয়ো না,বাবা-মায়ের সাথে খারাপ ব্যবহার করো না ইত্যাদি ইত্যাদি।ধর্ম বলছে মানবিক হও তবেই তুমি একজন ভালো ধার্মিক হতে পারবে।আর সে জন্যই মানুষ ধর্মকে আঁকড়ে আছে।আর সে জন্য ধার্মিকেরা যদি নির্বোধ হয়ে থাকে তাহলে এই ব্যাপারটা খুবই হাস্যকর হয়ে দাঁড়ায়।

যারা সৃষ্টিকর্তাকে মানে না এরাই মূলত অমানবিক এবং নিকৃষ্ট শ্রেনীর মানুষ বলে আমার বিশ্বাস ।

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৪২

রাজীব নুর বলেছেন: আপনি অনেক কিছুই মনে করতে পারেন। তাতে নাস্তিকদের কিছুই যায় আসে না।

৪| ১১ ই মে, ২০১৯ সকাল ৮:০৬

চাঁদগাজী বলেছেন:


মানুষই ধর্ম রচনা করেছিলেন; যখন মানুষ ধর্ম রচনা করেছিলেন, সেই সময়ের জন্য সেটা ছিল মহত কাজ; আজকের মানুষ আগের দিনের পন্ডিতের থেকে বেশী জানেন; ফলে, আগের পন্ডিতদের রচিত ধর্ম আজকে অচল হয়ে যাচ্ছে।

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৪৪

রাজীব নুর বলেছেন: দামী মন্তব্য করেছেন।

৫| ১১ ই মে, ২০১৯ সকাল ৮:৩১

নীলপরি বলেছেন: ১নং মন্তব্যের সাথে একমত ।

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৪৮

রাজীব নুর বলেছেন: ইয়েস।

৬| ১১ ই মে, ২০১৯ সকাল ১০:৪০

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন: তবে কেয়ামত পর্যন্ত ধর্ম থাকবে বলে মনে হয় কারণ দুই ধরনের মানুষ পৃথিবীতে থাকবে , ভালো এবং মন্দ।

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৪৮

রাজীব নুর বলেছেন: তা ঠিক।

৭| ১১ ই মে, ২০১৯ সকাল ১০:৪৫

আহমেদ জী এস বলেছেন: রাজীব নুর,




নিজের জীবনে বিশ্বাসের গল্পটাই বলে গেছেন মনে হয়। চমৎকার বাস্তবতা উঠে এসেছে লেখায়।






১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৫০

রাজীব নুর বলেছেন: হা হা হা----

৮| ১১ ই মে, ২০১৯ সকাল ১১:১৪

কালো যাদুকর বলেছেন: আহমেদ জী এস বলেছেন: রাজীব নুর, নিজের জীবনে বিশ্বাসের গল্পটাই বলে গেছেন মনে হয়। চমৎকার বাস্তবতা উঠে এসেছে লেখায়। হা হা হা....

তবে যারা ভাল লেখক তারা যেটা বলতে চান, সেটা প্রকাশ করে ফেলেন।

তবে যাই হোক, এই পোস্টার আগা মাথা কিছু বুঝলাম না।

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৫২

রাজীব নুর বলেছেন: পোষ্ট পুরোটা লেখা হয় নাই। অর্ধেক লেখা হয়েছে।

৯| ১১ ই মে, ২০১৯ দুপুর ১২:১৮

ভুয়া মফিজ বলেছেন: ধর্ম নিয়ে লেখালেখি করা বরং বাদই দেন। আগে যেগুলো লিখতেন.....কিংবা গল্প, সেগুলোই লিখেন। :)

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৫৪

রাজীব নুর বলেছেন: ঠিক বলেছেন।

১০| ১১ ই মে, ২০১৯ বিকাল ৪:৩৮

ডার্ক ম্যান বলেছেন: ধর্ম নিয়ে কথা বলতে ভাল লাগে না। তবে আগামীতে বাংলাদেশে ধর্মহীনের সংখ্যা অনেক বেড়ে যাবে

১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:৫৪

রাজীব নুর বলেছেন: অলরেডি বেড়ে গেছে।

১১| ১১ ই মে, ২০১৯ রাত ৯:১৬

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন: ডার্ক ম্যান বলেছেন: ধর্ম নিয়ে কথা বলতে ভাল লাগে না। তবে আগামীতে বাংলাদেশে ধর্মহীনের সংখ্যা অনেক বেড়ে যাবে।

বিখ্যাত একজন লেখক এর কোন একটি বইতে পড়েছি, শস্যের চেয়ে টুপি বেশি, ধর্মের আগাছা বেশি। ধর্ম বাংলাদেশের মানুষের নীতি চেঞ্জ করতে পারেনি। বেশিরভাগ মানুষই অসত্ৎ, দুর্নীতি পরায়ন। ধর্ম যদি মানুষের মধ্যে ভালো কোনো পরিবর্তন আনতে নাই পারবে তাহলে সেই ধর্ম কেন আকড়ে ধরে থাকা?

১২ ই মে, ২০১৯ রাত ১০:৫৬

রাজীব নুর বলেছেন: ঠিক বলছেন।

১২| ১২ ই মে, ২০১৯ রাত ১০:১০

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন: রাত সোয়া বারোটা বেজে গেল। ভেবেছিলাম আপনার নতুন পোস্ট পড়ে ঘুমাতে যাব। কিন্তু আপনি নতুন কোনো পোস্ট দিলেন না। তাই কি আর করা ঘুমাতে গেলাম।

১২ ই মে, ২০১৯ রাত ১০:৫৭

রাজীব নুর বলেছেন: ভাইজান, ভিপিএন দিয়ে আরামে কাজ করতে পারি না। নানান ঝামেলা হয়।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.