নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

আমার নাম- রাজীব নূর খান। ভাবছি ব্যবসা করবো। ভালো লাগে পড়তে- লিখতে আর বুদ্ধিমান লোকদের সাথে আড্ডা দিতে। কোনো কুসংস্কারে আমার বিশ্বাস নেই। নিজের দেশটাকে অত্যাধিক ভালোবাসি। সৎ ও পরিশ্রমী মানুষদের শ্রদ্ধা করি।

রাজীব নুর

আমি একজন ভাল মানুষ বলেই নিজেকে দাবী করি। কারো দ্বিমত থাকলে সেটা তার সমস্যা।

রাজীব নুর › বিস্তারিত পোস্টঃ

রাস্তায় পাওয়া ডায়েরী থেকে-১০১

১৮ ই জুলাই, ২০১৯ রাত ৯:৫১



১। বাংলাদেশ গর্ব করতে পারে এমন একজন লেখক হচ্ছেন- হুমায়ূন আহমেদ। হুমায়ুন আহমেদ এর মৃত্যুর কথা মনে পড়লেই কোত্থেকে যেন এতগুলো কষ্ট এসে জমে বুকে। আমার সবচেয়ে প্রিয় লেখক, প্রিয় ব্যক্তিত্ব হুমায়ুন আহমেদ। হয়তো আজীবন লিখলেও উনার সম্পর্কে আমার সব অনুভূতি বোঝাতে পারব না। কোনোদিন না।

২। আমাদের দেশে একজন বীর পুরুষ ছিলেন, উনার নাম ঈসা খাঁ। মোগল সম্রাটদের মধ্যে সব চাইতে কির্তীমান বলে যাকে ধরা হয় সেই জালালউদ্দীন আকবর বশ্যতা স্বীকার করে খাঁজনা দিতে আদেশ দিলেন ঈসা খাঁ-কে। বরাবরই স্বাধীনচেতা বাংলার নেতা ঈসা খাঁ সেই আদেশে সাড়া তো দিলেনই না উল্টা যুদ্ধ ঘোষণা বসলেন। ক্রোধে উন্মত্ত হয়ে উঠলেন সম্রাট আকবর।...

বাংলার নেতাকে শায়েস্তা করার জন্য আকবর পাঠালেন তার সর্বাধিক বিশ্বাসভাজন রাজপুত সেনাপতি মান সিংহকে। বাংলার মানুষও লেজ গুটিয়ে পালানোর নয়, বীরের বেশে অস্ত্র ধারণ করে প্রতিরোধ গড়ে তুললো ঈসা খাঁ-র নেতৃত্বে।...
শেষে তারা দুইজন আর যুদ্ধ করেন নি। দু'জন মিলে আপোষ করে ফেলেন।

সত্যিই বীর সেইই যে নিরস্ত্র, অসহায়, দুর্বলের বিরুদ্ধে অস্ত্র ধরে না। আর কাপুরুষ সেইই যে সুযোগ পেলেই নিরস্ত্র, অসহায়, দুর্বলের বিরুদ্ধে ঝাপিয়ে পড়ে।

৩। সে অনেকদিন আগের কথা, এক দেশে বাস করত এক রসায়নবিদ। সে ছিল অসম্ভব সুন্দর। সে এতটাই সুন্দর ছিল যে, তার সৌন্দর্য দেখতে আকাশের পরীরা নেমে আসতো পৃথিবীতে। সে যখন স্নান করত নদীতে- মৎস্য কুমারীরা তার চারপাশে খেলা করত আর তাকে ছুঁয়ে ধন্য হত। শুধু রসায়নশাস্ত্রে নয়, তলোয়ার বিদ্যাতেও তার পারদর্শিতা ছিল। দেশ বিদেশের সুন্দরী রাজকুমারীরা প্রস্তাব পাঠাত তাকে বিয়ে করার জন্য। তবে সব প্রস্তাবই ফেরত যেত, কেননা রসায়নবিদের এসব দিকে খেয়াল নেই। সে তার গবেষণা নিয়েই ব্যস্ত থাকত রাত-দিন।

৪। ঢাকায় প্রচুর ডেংগু রোগীর সংখ্যা বেড়েছে। হাসপাতাল ভর্তি ডেংগু রোগী। আমার ছোট ভাইয়ের স্ত্রীর ডেংগু হয়েছে। চারটা হাসপাতাল ঘুরে কেবিন পাওয়া গেল না। এমন কি ওয়ার্ডও খালি নেই। হাসপাতাল ভর্তি ডেংগু রোগী। ভয়াবহ অবস্থা। প্রিয় ব্লগাররা সাবধান থাকবেন। ডেংগু খুব খারাপ জ্বর। এদিকে বহু গ্রাম পানিতে ঢুবে গেছে। টিভিতে দেখি, খবরের কাগজে পড়ি, আর আফসোস করি। মানূষের সীমাহীন কষ্ট। প্রতি বছর একই চিত্র। নদী ভাঙ্গন কি স্থায়ীভাবে সমাধান করা যায় না? দেশ স্বাধীন হয়েছে কত বছর হয়ে গেল কিন্তু আজও কেন নদী ভাঙ্গন স্থায়ীভাবে রোধ করার ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে না?

মন্তব্য ১৮ টি রেটিং +২/-০

মন্তব্য (১৮) মন্তব্য লিখুন

১| ১৮ ই জুলাই, ২০১৯ রাত ৯:৫৯

ইসিয়াক বলেছেন: আমি প্রথম।

১৮ ই জুলাই, ২০১৯ রাত ১০:০১

রাজীব নুর বলেছেন: কি খাবেন বলেন??

২| ১৮ ই জুলাই, ২০১৯ রাত ১০:১৫

ইসিয়াক বলেছেন: হুমায়ুন আহমেদ এর সাথে আমার একটা স্মৃতি আছে।একটু শেয়ার করি।
১৯৮৯ সাল আমরা ক'বন্ধু মিলে একুশে বই মেলায় গেলাম ।প্রভাত ফেরি সেরে হেটে হেটে চললাম।
অনেক ঘটনার শেষে আমরা বই মেলায় ঘুরাঘুরি করলাম কবি সাহিত্যিকদের কাছাকাছি থাকতে বেশ মজাই লাগছিল তার উপর ফ্রিতে টিভি নাটকের কর্মীদের আনা গোনা স্বপ্নের মতো ব্যাপার।কিন্তু আমার প্রিয় লেখক কোথায়?
অবশেষে দেখা মিলল তার সম্ভবত অন্য প্রকাশের স্টলে। বসে আছেন তিনি।দীর্ঘ লাইন ,অবশেষে পৌছলাম তার কাছাকাছি।এতক্ষণ একটাও বই কিনিনি এবার কিনলাম।বই এর নাম গৌরী পুর জংশন ।
-নাম?
-অপূর্ব।
তিনি লিখলেন;
অপূর্ব তুমি আমার শুভেচ্ছা নাও।

১৯ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ১২:২১

রাজীব নুর বলেছেন: বাহ !!!

৩| ১৮ ই জুলাই, ২০১৯ রাত ১০:৫৪

চাঁদগাজী বলেছেন:


নদী যে পরিমাণ পানি বইতে পারে, তার চেয়ে বেশী পানি নদীকে খরস্রোতা করে তোলে

১৯ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ১২:২২

রাজীব নুর বলেছেন: নদী অনেক বড় সম্পদ দেশের জন্য। কিন্তু আজ এই নদীই মানুষের সম্পদ কেড়ে নিচ্ছে।

৪| ১৮ ই জুলাই, ২০১৯ রাত ১১:৪২

বলেছেন: ১নাং -- হু ,আ, ছাড়া -জসীম উদ্দীনন ছিলেন বাংলার লোকায়ত সংস্কৃতির নির্ভরযোগ্য ও বিশ্বস্ত প্রতিনিধি। কেননা তিনিই একদিন দুঃসাহসিক অঙ্গীকার নিয়ে বলতে পেরেছিলেন—‘তোমার গেঁয়ো মাঠটি আমার মক্কা হেন স্থান।’ পল্লীদরদী না হলে এমত উচ্চারণ কারও পক্ষেই সম্ভব নয়।

১৯ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ১২:২৩

রাজীব নুর বলেছেন: পল্লী বন্ধু এরশাদ বড় না জসীম উদ্দদীন?

৫| ১৯ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ১:৩৩

আনমোনা বলেছেন: প্রথম দিকের বইগুলো ভালো ছিলো। পরের দিকের লেখাগুলো কেমন এলোমেলো লাগতো। পড়ার পরে কি পড়েছি ভুলে যেতাম।

১৯ শে জুলাই, ২০১৯ সকাল ১০:৫৯

রাজীব নুর বলেছেন: অনেকেই এই কথা বলে।

৬| ১৯ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ২:৫৬

মুক্তা নীল বলেছেন:

হুমায়ূন আহমেদ স্যার একটি কালজয়ী প্রিয় নাম । কিন্তু তিনি শাওনকে বিয়ে করার পর কেন জানি উনার বই আর পড়তে ইচ্ছা হতো না।

১৯ শে জুলাই, ২০১৯ সকাল ১১:০০

রাজীব নুর বলেছেন: হুমায়ূন আহমেদ বিয়ে করেছেন তাতে কোনো সমস্যা দেখি না। পাঁচ টা বিয়ে করলেও কিছু যায় আসে না।

৭| ১৯ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ৩:১৫

আপেক্ষিক মানুষ বলেছেন: ১ নং এ আমার মনের কথা গুলো বলেছেন! কিভাবে আমার মনের কথা বউঝলেন রাজিব ভাই?

১৯ শে জুলাই, ২০১৯ সকাল ১১:০১

রাজীব নুর বলেছেন: এক ভাই আরেক ভাইয়ের মনের কথা বুঝবে না??

৮| ১৯ শে জুলাই, ২০১৯ ভোর ৫:৫২

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন:
বাংলাদেশের মানুষ নদীকে সাজিয়ে গুছিয়ে রাখতে ব্যর্থ। তাই বন্যা ।

১৯ শে জুলাই, ২০১৯ সকাল ১১:০১

রাজীব নুর বলেছেন: নদী শাসন খুব কঠিন কিছু না।

৯| ১৯ শে জুলাই, ২০১৯ বিকাল ৫:৪৩

বিচার মানি তালগাছ আমার বলেছেন: এবার সময় হয়েছে আমাদেরও ড্যাম নির্মাণ করা। যদিও ভারত গোসসা হবে...

১৯ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ৮:৩৩

রাজীব নুর বলেছেন: আমাদের নিজেদের বাঁচতে হবে।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.