নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

আমার পুরো নাম শাইয়্যান মোহাম্মদ ফাছিহ-উল ইসলাম। অন্যদের সেভাবেই দেখি, নিজেকে যেভাবে দেখতে চাই। যারা জীবনকে উপভোগ করতে চান, আমি তাঁদের একজন। সহজ-সরল চিন্তা-ভাবনা করার চেষ্টা করি। আর, খুব ভালো আইডিয়া দিতে পারি।

সত্যপথিক শাইয়্যান

আমি লেখালিখি করি, মনের মাধুরী মিশিয়ে

সত্যপথিক শাইয়্যান › বিস্তারিত পোস্টঃ

ফ্রান্সের পণ্য বর্জন আমি করবো না

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ রাত ১২:২৮



ফ্রান্সের পণ্য বর্জন আমি করবো না। কারণ?
.
বাংলাদেশীদের আবেগ সংবরণ করা শিখতে হবে....যে দেশে বাংলাদেশের পণ্য রপ্তানী হয় ২০০ বিলিয়ন টাকার উপরে, যে দেশের একটি প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশের সেটেলাইট তৈরি করে দিয়েছে...যে দেশ ফিলিস্তিনে ইসরাইলের আগ্রাসনের প্রতিবাদ করে......সে দেশের সাথে পট করে রাজনৈতিক সম্পর্ক ছেদ করা যাবে? নাকি সেটা বুদ্ধিমানের কাজ হবে?
.
মহানবী (সাঃ)-এর সাথে বেয়াদবী করায় একটা ঘা ইতিমধ্যেই দেওয়া হয়েছে। এখন যারা ঘা খেয়েছে তারা তো লাফাবেই। এখন কি করা উচিৎ? আমার মতামত- চুপ করে মজা লুটুন। এইসব পণ্য বর্জন-মর্জন ভুয়া জিনিস।

মন্তব্য ২১ টি রেটিং +২/-০

মন্তব্য (২১) মন্তব্য লিখুন

১| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ রাত ১:২১

চাঁদগাজী বলেছেন:



ফ্রান্স, জার্মানী, ইতালী, গ্রীস যদি এশিয়া ও আফ্রিকান নাগরিকদের ভালো পরিমাণে টাকা দিয়ে এশিয়া, আফ্রিকা, ব্রাজিলে পাঠায়ে দেয়, ইউরোপ ধ্বংস থেকে রক্ষা পাবে।

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ সকাল ১১:৫৬

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:
আপনি প্রায়ই অফ টপিকে কথা বলেন।

প্রসঙ্গে থাকুন। ধন্যবাদ।

২| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ রাত ১:৩২

নেওয়াজ আলি বলেছেন: আমার ঘরে ফান্সের ইলেকট্রি আয়রন এবং ব্যালান্ডার মেশিন আছে ।

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ সকাল ১১:৫৭

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:
ওগুলো কি এখন ফেলে দিতে হবে?

ধন্যবাদ।

৩| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ রাত ২:৪২

হাসান কালবৈশাখী বলেছেন:
কোন দেশে নাগরিকত্ব বা রেসিডেন্সি পেতে সেই দেশের আইন মেনে চলা, স্থানিয় শিক্ষা সংস্কৃতির প্রতি শ্রদ্ধা ইত্যাদি কিছু শপথ করতে হয়, অংগিকারনামাতে স্বাক্ষর করতে হয়।

কিন্তু কিছু মোসলমান নামধারী দেশটিতে ঢুকেই লম্বা দাড়ী, লম্বা কুর্তা, বিধঘুটে কালো বস্তা পরিধান করে স্থানিয় বাসিন্দাদের বিদ্রুপ করবে। মসজিদে নামাজের পর কিছু মানুষ গোল হয়ে বসে দেশটির ধ্বংশ কামনা করবে। আন্ডাবাচ্চা গুলোকেও একই শিক্ষা দেয়।
স্কুল কলেজের সনদ নেয়ার অনুষ্ঠানে ভরা মজলিশের ভেতর হ্যন্ডসেক করতে অস্বীকার করে সবাইকে অপমান করবে।

এখন সময় হয়েছে সন্দেহজনক কিছু পরিবারকে একটি কঠিন মনস্তাত্তিক পরীক্ষা নিয়ে অকৃতকার্য প্রত্যেককে শপথ ভঙ্গের দায়ে উচ্চহারে জরিমানা করে বহিষ্কার করা এখন সময়ের দাবী।

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ সকাল ১১:৫৯

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:

আপনি দেখি আবেগে গদ্য লিখে ফেলেছেন!!!!!

আমি প্রথমেই বলে নিয়েছি - আবেগ নিয়ন্ত্রন করতে হবে।

ধন্যবাদ।

৪| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ রাত ৩:২৪

এ আর ১৫ বলেছেন: মহা নবী ( সাঃ ) কে নিয়ে বেয়াদপি করার জন্য খুন করার কথা কি কোরানে লিখা আছে? তারা জেসাস কে নিয়ে বহু কার্টুন একেছে, তাকে সমকামি, জারজ সন্তান ( নাউযুবিল্লাহ) বলেছে, কৈ খ্রিস্টানরা তো খুন করে নি বা কোন টোকা দেয় নি তাদের।

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ দুপুর ১২:০১

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:

এইসব ধুন-ফুন এনালাইসিস থেকে দূরে থাকুন।

ধন্যবাদ।

৫| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ রাত ৩:৩৩

রাজীব নুর বলেছেন: ফ্রান্সের পণ্য বর্জন আমি করবো না।
ওদের আগে মানুষ হতে হবে। ওরা ধার্মিক।

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ দুপুর ১২:০২

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:

আমি পণ্য বর্জন না করার কারণ উপরে বলেছি।

ধন্যবাদ নিরন্তর।।

৬| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ রাত ৩:৪২

এ আর ১৫ বলেছেন: ফ্রান্সে ব্যাঙ্গচিত্র বেআইণী নহে, তারা জেসাস, মেরির ব্যাঙ্গ কার্টুন আকেফ্রান্সে ব্যাঙ্গচিত্র বেআইণী নহে, তারা জেসাস, মেরির ব্যাঙ্গ কার্টুন আকে

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ দুপুর ১২:০৩

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:

এই কার্টুনের বক্তব্য কি আপনি জানেন? ফ্রেঞ্চ পড়তে পারেন?

৭| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ ভোর ৬:০৩

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন:
সুন্দর পোস্ট।
অসাধারণ সুন্দর বক্তব্য।

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ দুপুর ১২:০৪

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:

ধন্যবাদ। এটা আমার মনের কথা।

৮| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ সকাল ৯:৫৩

নুরুলইসলা০৬০৪ বলেছেন: আমাদের ধর্মে কিছু সমস্যা আছে সংশোধনের সময় এসে গেছে।মনে রাখতে হবে এটা ইন্টারনেট এর যুগ।প্রেস আসার পর খৃষ্ট ধর্মের প্রভাব হ্রাস পায়,ইন্টারনেট আসার পর এখন পালা ইসলাম ধর্মের।

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ দুপুর ১২:০৫

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:


অফ টপিকে কথা বলছেন। হয়তো বুঝতে পারেননি আমি কি বলতে চাচ্ছি।

৯| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ সকাল ৯:৫৮

অধীতি বলেছেন: ভাললাগছে।

২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ দুপুর ১২:০৭

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:
অনেক ধন্যবাদ।

১০| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ বিকাল ৪:০৮

রাশিয়া বলেছেন: @নুরুলইসলা০৬০৪, আপনাদের ধর্মে কিছু সংশোধন করার থাকলে অবশ্যই করবেন। নিজেরা ধর্ম বানাবেন, সেটাকে সংশোধন করবেন - অসুবিধা কোথায়?

কিন্তু আমাদের ধর্মে সংশোধনের কোন জায়গা নেই। দেড় হাজার বছর আগে যে দ্বীনকে পরিপূর্ণ করে দেয়া হয়েছে, তাতে সংশোধনের কোন সুযোগ নেই। ইন্টারনেট কেন, টেলিপোর্টারের যুগ এলেও ইসলামের প্রভাব এই বিশ্বে কিছুতেই হ্রাস পাবেনা। আল্লাহ্‌ যখন দ্বীনকে পৃথিবী থেকে তুলে নেবেন, আল্লাহ্‌কে ডাকার মত কোন মানুষ থাকবেনা - তখনি পৃথিবীতে মানুষের প্র্যোজন ফুরিয়ে যাবে।

১১| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:২৫

জনৈক অপদার্থ বলেছেন: প্রব্লেম টা হয়ে গেছে ইমিগ্রান্টদের। লা পেন নেক্সট ইলেকশনে জিতে যাবেন তা চোখ বন্ধ করেই বলে দেয়া যাচ্ছে। লোকরঞ্জনবাদের নেক্সট আতুঁরঘর ফ্রান্স হবে, লিখে রাইখেন৷ ফ্রেঞ্চ মুসলিমদের উচিত ছিলো পালটা স্টান্স না নেয়া। এখন পস্তাবে তারা

১২| ২৬ শে অক্টোবর, ২০২০ রাত ১১:০৯

পঞ্চগড়ের বাসিন্দা বলেছেন: মুনাফিকরা কি করলো না করলো সেটা নিয়ে মুসলিমদের চিন্তিত হওয়ার কোন কারন নেই , শুধু তাদের চিনতে পারাটাই যথেষ্ট,
কারন মুনাফিকদের ব্যাপারে সিদ্ধান্ত আল্লাহ আগেই নিয়ে রেখেছেন

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.