নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

আমার পুরো নাম শাইয়্যান মোহাম্মদ ফাছিহ-উল ইসলাম। অন্যদের সেভাবেই দেখি, নিজেকে যেভাবে দেখতে চাই। যারা জীবনকে উপভোগ করতে চান, আমি তাঁদের একজন। সহজ-সরল চিন্তা-ভাবনা করার চেষ্টা করি। আর, খুব ভালো আইডিয়া দিতে পারি।

সত্যপথিক শাইয়্যান

আমি লেখালিখি করি, মনের মাধুরী মিশিয়ে

সত্যপথিক শাইয়্যান › বিস্তারিত পোস্টঃ

হায় রে সৈয়দ বংশ!---একজন কিশোরের প্রতিবাদলিপি

০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ সকাল ৭:২৭



সৈয়দ বংশের জাতক/জাতিকাদের প্রতি কিশোরের এক আলাদা দূর্বলতা আছে। এই বংশের কারো প্রতি অসম্মান দেখলে কেন যেন তার মন বিদ্রোহী হয়ে উঠে, আজও! কেন এমন হয়? এটা সত্যিই কি মহানবী (সা)-এর প্রতি সম্মান থেকে? নাকি...্কিশোর পাশার সাথে যার বিয়ে হবার কথা ছিলো, তিনি একজন সৈয়দা, সেজন্যে?....ভাবছি। বিয়ের কথা-বার্তা তো অনেকেরই সাথে হয়। কিন্তু, যদি সেই কথা-বার্তা চলে এমন একজনের সাথে যার সঙ্গে মন দেওয়া-নেওয়া হয়েছে, তাহলে তো কথাই নেই! আমার বন্ধু কিশোরের ক্ষেত্রেও এমনটা ঘটেছিলো। যদিও সেই মেয়েটার সাথে আমার বন্ধুর বাস্তবে কখনো দেখা হয়নি।

কিশোরের নিজের বংশ মর্যাদা খুব নীচু শ্রেণীর। তারা হয়তো শুদ্র শ্রেণী থেকে মুসলমান হয়েছে। অন্ততঃ তার বাবাকে দেখে তা-ই মনে হতো। ভীমসে কালো ছিলেন তিনি। যদিও কিশোরের ফুফুরা সবাই-ই টকটকে ফর্সা। সেটা হয়তো ্তার দাদীর কারণে। কিশোরের মা, আমার আন্টি, বলেন- তার দাদার দাদারা মিরাশ তালুকদার ছিলেন। যদিও কখনো তাঁরা এই টাইটেল ব্যবহার করতেন না। আর, হয়তো বেশি শিক্ষিত হয়ে দাদাদের 'উল্লাহ' আজ তাদের নামের সাথে নেই! কথা সেটা না!

আসলে, কাউকে বংশ নিয়ে কথা বলতে দেখলে আমাড় বন্ধুর খুব গায়ে লাগে। কিশোরকে একবার জিজ্ঞাসা করা হয়েছিলো- তোমার বাপ-দাদার বংশ কি? সে বলেছিলো- তাঁরা একজন নবী'র বংশধর। কোন নবী'র? তার বিলকুল উত্তর- তাঁরা ছিলেন হযরত আদম (আ)-এর সরাসরি বংশধর!

সেই নিচু বংশের মানুষ হয়ে উঁচু বংশধরদের ভূমি ইংল্যান্ডে পড়ার পাঠ শেষ করতে গিয়েছিলো সে। কয়েকটি দেশ সফর করেছে। কয়েকটি ভালো প্রতিষ্ঠানে চাকরীও করেছে। অনেক মানুষের সাথে যোগাযোগ ঘটেছে, সম্পর্ক তৈরী হয়েছে। কিন্তু, সৈয়দ বংশের কাছে দাগা খাওয়ার ঘা এখনও শুকায়নি। যদিও সে জানে, আহলে বায়াতদের সম্পর্কে মনে যদি কারো একটুও বিদ্বেষ থাকে, সে ব্জীবনে সফলকাম হবে না।

আল্লাহ আমাদের সেই বিদ্বেষ থেকে রক্ষা করুন।

মন্তব্য ১২ টি রেটিং +১/-০

মন্তব্য (১২) মন্তব্য লিখুন

১| ০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ সকাল ৮:৪৫

বিদ্রোহী ভৃগু বলেছেন: আহলে বায়াতদের তো ভুলিয়েই দেয়ার অপচেষ্টা চলছে
সেই ইয়াজিদি আমলের কারবালা থেকে আজো নব্য ওহাবী নজদী গং একই পথের পথিক!

মুসলমান দাবীকারীকে অবশ্যই আহলে বায়াতের প্রতি আন্তরিক ভালবাসা রাখতে হবে।

০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ সকাল ৯:০৭

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:


ধন্যবাদ, প্রিয় কবি। শুভ সকাল। আপনার সঙ্গে সহমত।

এই সঙ্গে যোগ করতে চাই- আহলে বায়াতের ভুল লুকিয়ে ফেলাই একজন মুসলমানের কর্তব্য।

আপনার সারাটা দিন ভালো যাক এই কামনা করি।

শুভেচ্ছা নিরন্তর।

২| ০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ সকাল ৯:৪৮

নুরুলইসলা০৬০৪ বলেছেন: একজন মানুষ বংশের পরিচয়ে পরিচিত হবে এটা মধ্যযুগীয় সামন্তবাদি ধারনা।আধুনিক ধারনা হল,সে তার নিজ গুনাবলী দিয়ে সমাজে পরিচিত হবেন।

০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ সকাল ৯:৫৫

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:


আমি যে বংশের কথা বলেছি, তারা নিজ গুণেই প্রতিষ্ঠিত।

ধন্যবাদ।

৩| ০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ সকাল ১০:৫৯

নেওয়াজ আলি বলেছেন: বংশের পরিচয় দিতে অস্বস্তি লাগে আমার মা বাবা এবং শুশুরের সবাই ভূঁইয়া বংশের। :D

০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ দুপুর ১:৫৫

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:


বাপ রে! ব্লগে বারো ভূঁইয়াদের কেউ আছেন জেনে ভালো লাগছে!

শুভেচ্ছা।

৪| ০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ দুপুর ১২:৫৬

লাতিনো বলেছেন: বংশধারা রক্ষা হয় পুত্রদের মাধ্যমে। কন্যাদের সন্তান তাদের পিতৃপরিচয়ে পরিচিত হয়। তাহলে নবীজির (স) বংশ বলতে কি বোঝানো হয়? নবীজির (স) তো কোন পুত্র সন্তানই নেই। ব্লাডলাইন বা রক্তধারা হিসেবে হযরত আলী (রা) এর বংশের কথা বলা যায়, যেহেতু আর কোন নাতি নাত্নী সারভাইভ করেননি।

০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ দুপুর ১:৫৬

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:


বাহ! আপনি দেখি এই ব্যাপারটা জানেন না!!!

অবশ্য একটু খোঁজ করলেই পেয়ে যাবেন।

আপাতত, আমার গল্প কেমন হয়েছে এটা বলুন।

ধন্যবাদ।

৫| ০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ দুপুর ১:১২

বিদ্রোহী সিপাহী বলেছেন: তাঁরা ছিলেন হযরত আদম (আঃ) এর সরাসরি বংশধর! এর চেয়ে সহজ আর সত্য উক্তি বিরল।
আহলে বায়াত প্রেমই আসল।

০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ দুপুর ১:৫৯

সত্যপথিক শাইয়্যান বলেছেন:



সহমত। ভালো থাকুন নিরন্তর।

৬| ০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ দুপুর ২:১২

রাজীব নুর বলেছেন: বংশ আবার কি? খায়? পরে?
মানুষের আসল পরিচয় তার কর্মে।

৭| ০৮ ই এপ্রিল, ২০২১ দুপুর ২:২১

শায়মা বলেছেন: ওহ এই কারণে তুমি কাল সৈয়দ বংশ নিয়ে কমেন্টে আপত্তি করেছিলে!!!!!!!!

ভাইয়া আমি অবশ্য সৈয়দ বংশের কথা হুমায়ুন আহমেদ গল্প থেকে পেয়েছিলাম জীবনে...... হা হা হা

আর আছে চৌধুরী সাহেব বংশ .... :P

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.