নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

জানার আছে অনেক কিছু, শিক্ষা নিবে কতজন?

শাইয়্যানের টিউশন (Shaiyan\'s Tuition)

সবার জন্যে শিক্ষা। আমার জন্যে তো বটেই। নিজে আগে শিক্ষা নিয়ে আরেকজনের মাঝে তা ছড়িয়ে দেওয়া...এটাই থাকবে আমার লেখাগুলোর উদ্দেশ্য।

শাইয়্যানের টিউশন (Shaiyan\'s Tuition) › বিস্তারিত পোস্টঃ

আমাদের আত্ম-প্রতিকৃতি দেখাবে কে?

১৩ ই এপ্রিল, ২০২০ রাত ৯:০৮



গল্পটা সময়োপযোগী। মহারাজ সিংহ দুপুরের দিবানিদ্রার পর বৈকালিক ভ্রমণে বেরিয়েছেন। দুপুরের লাঞ্চটা হয়েছে মহিষ দিয়ে। খিদে তেমন চাগায় নি। বেশ অনেক- ক্ষণ হেঁটে একটা শেয়ালের কলোনির কাছে পৌঁছলেন। বিকেলবেলা ধেড়েগুলো গর্তের ভিতর জিরোচ্ছে।ক্ষুদে ছানাপোনাগুলো হুটোপুটো করছে বাইরে ।মহারাজ খেয়াল করলেন এদের মধ্যে একটি সিংহ ছানা ওই নাচ্ছারদের সঙ্গে খেলাধুলোয় মত্ত।

মহারাজের মেজাজ টং হয়ে গেল। এই ইতর শ্রেণীটাকে ক্ষিদে লাগলেও শিকার করে না। বড়ই ঘৃণিত শ্রেণী এই শৃগালকূল।অথচ তাঁরই স্বজাতি এদের মধ্যে!বিষয়টা কী? জানা জরুরী।

সাবধানে গুড়ি মেরে সিংহ শাবকের কাছে গেলেন মহারাজ। নাচ্ছারদের ছানাগুলো তাঁকে দেখে পালালো গর্তের ভিতর। কিন্তু ছানাটা থমকে দাঁড়াল।

"কি ব্যাটা তুই এখানে কেন?তোর বাবা-মা কে?কোথায় থাকিস?"ওরা কারা?---মহারাজের প্রশ্নে ঘাবড়ে গেল শাবক!
চিঁ,চিঁ করে উত্তর দিল"আজ্ঞে আমি শেয়ালছানা।শেয়াল-শেয়ালনী আমার বাবা মা।এখানেই থাকি।ওরা আমার ভাই বোন।

সিংহ মহারাজ তো মহা তাজ্জব। উল্লুকটা মনে হয় আত্নপরিচয় সঙ্কটে ভুগছে। ইতর বিশেষের সঙ্গে থাকলে যা হয় আর কী? নিজ জ্ঞানে বুঝে নিলেন। তাঁকে আত্নপ্রতিকৃতি দেখাতে হবে। তা হলেই সে নিজেকে চিনবে।

রাতে ভেবে উপায় বের করতে হবে।ঐদিন ফিরে গেলেন চিন্তিত মনে।সারারাত নির্ঘুম কাটল মহারাজের।স্বজাতির এই মন্দ কপালের জন্য নিজের উপরই রাগ হল তাঁর।তবে উপায় একটা বের করলেন।

৪/৫দিন পর পরিকল্পনা মত আবার ওখানে গেলেন। আজ আরো সাবধানে নিজেকে লুকিয়ে। ঘন ঝোপঝাড়ের ভিতর দিয়ে সেঁধিয়ে খেলাধুলোয় মত্ত সিংহ ছানার কাছে গেলেন। তারপর আচমকা লাফ দিয়ে সিংহ ছানাটার ঘাড় ধরে ছুট লাগালেন চোখের পলকে। প্রায় আধাঘণ্টা ছুটে পৌঁছলেন এক ঝরনার টলটলে স্থির জলের সরোবরের তীরে।

যে স্বচ্ছজলে নিজের প্রতিকৃতি স্পষ্ট দেখা যায়। সিংহ মহারাজ ওই আত্নপরিচয় ভুলে যাওয়া ছানাকে জলের কিনারে দাঁড় করালেন-
"জলের দিকে তাকা তো ব্যাটা!---আদেশ দিলেন মহারাজ।

ছানাটা তন্ময় হয়ে বেশ কিছুক্ষণ নিজেকে দেখল।

"এবার আমার দিকে তাকা!----ছানা একবার জলে নিজের চেহারা আর একবার মহারাজের দিকে তাকাতে লাগল।

"কি দেখতে পাচ্ছিস? কার মত তুই?---জিজ্ঞেস করলেন মহারাজ।

"হুজুর আমার তো সবই আপনার মত! অবাক হয়ে জবাব দিল সিংহ শাবক। "হ্যাঁ! তুই আমার মতই! তুই শেয়াল ছানা নয়, তুই সিংহ শাবক। এবার আমার মত হুঙ্কার ছাড় তো!"

দুজনের হুঙ্কারে কেঁপে উঠল সমস্ত বন!



=====================
জনাব সৈয়দ এনায়েতুর রহমানের কাছ থেকে পাওয়া একটি গল্প
=======================================

মন্তব্য ৩ টি রেটিং +১/-০

মন্তব্য (৩) মন্তব্য লিখুন

১| ১৩ ই এপ্রিল, ২০২০ রাত ৯:৩১

বিজন রয় বলেছেন: +++++

মেসেজ আছে।

২| ১৩ ই এপ্রিল, ২০২০ রাত ১০:১১

রাজীব নুর বলেছেন: সুন্দর গল্প।

৩| ১৩ ই এপ্রিল, ২০২০ রাত ১০:৫৪

নেওয়াজ আলি বলেছেন: মনোরম লেখনী ।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.