নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

কলাবাগান১

বাংলাদেশ হোক রাজাকার মুক্ত

কলাবাগান১ › বিস্তারিত পোস্টঃ

ডেংগু ভ্যাকসিন-Dengvaxia এর প্রবলেম

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সকাল ১০:৩৫



প্রথম ডেংগু ভাইরাস দ্বারা আক্রান্ত ১০,০০০ লোকের মাঝে মাত্র ১ জনের রোগের মাত্রা এত চরমে উঠে যে যেটা নিরাময় যোগ্য নয়। কিন্তু দ্বিতীয় বার যদি ডেংগুএর দ্বারা আক্রান্ত হয়, তাহলে ১০০ মাঝে ১ জনের মৃত্য ঝুকিতে পড়ে...।এটা বায়োলজির সকল জ্ঞান এর বিপক্ষে..কেননা আপনি একবার আক্রান্ত হলে আপনার শরীর যে এন্টিবডি তৈরী হবে সেটা আপনাকে সারা জীবন সেই ভাইরাস প্রতিরোধ করার শক্তি দিবে যেমন ভ্যাকসিন আপানকে প্রটেক্ট করে। এখন পর্যন্ত্য ডেংগুই একমাত্র ভাইরাস যেটা দ্বিতীয় বার আক্রান্তদের, প্রথমবারের চেয়েও বেশী (হিমোরিজিক ফিভার) এফেক্ট করে থাকে। এটা কে বিজ্ঞান এর ভাষায় বলে Antibody-dependent enhancement। জানার ইচ্ছা হল..আজ পর্যন্ত্য যত জন মারা গিয়েছেন, তারা কি জীবনে কখনও আগে ডেংগুতে আক্রান্ত হয়েছিলেন কিনা? যদিও অনেক সময় আক্রান্ত হলেও সামান্য জ্বর হয়ে তা আবার ভাল হয়ে যায়। তবে তাদের রক্ত পরীক্ষা করলে ডেংগু এন্টিবডি পাওয়া যাবে।

"The phenomenon of ADE may be observed when a person who has previously been infected with one serotype of DENV (ডেংগু) becomes infected many months or years later with a different serotype. In such cases, the clinical course of the disease is more severe, and these people have higher viremia compared with those in whom ADE has not occurred. This explains the observation that while primary (first) infections cause mostly minor disease (DF) in children, secondary infection (re-infection at a later date) is more likely to be associated with severe disease (DHF and/or DSS) in both children and adults."

নিচের ছবিতে (ADE) দেখুন..। সেইম প্রজাতির ডেংগু ভাইরাস যদি দ্বিতীয় বার আক্রমন করে, আগের তৈরী এন্টিবডি আপনার শরীর কে প্রটেক্ট করবে কিন্তু অন্য 'প্রজাতির' (serotype) ডেংগু ভাইরাস দ্বারা আক্রান্ত হলে, কোষ প্রতিরোধ না করে বরন্চ ডেংগু ভাইরাসকে প্রজননের (রেপ্লিকেশন) মাধ্যমে তার বংশ বৃদ্ধিতে সাহায্য করে (যেটা বায়োলজিক্যাল সিস্টেমে দেখা যায় না বললেই চলে)

Dengvaxia ভ্যাকসিন ৪টা ডেংগু ভাইরাস 'প্রজাতি' (serotype) কে প্রটেক্ট করার জন্য ডেভেলপ করা হয়েছে...কিন্তু কিছু কিছু ক্ষেত্রে যাদের কখনও ডেংগু হয় নাই, তাদের কে এই ভ্যাকসিন দেওয়ার পর Antibody-dependent enhancement এর মত সিভিয়ার ডেংগুতে আক্রান্ত হওয়ার মত ঘটনা দেখা যাচ্ছে। তাই এই ভ্যাকসিন এখন শুধু মাত্র যাদের একবার ডেংগু হয়েছে তাদের জন্য উপযোগী বলে বলা হচ্ছে।
রাজীব নুর সাহেব এর দৃস্টি আকর্ষন করছি।
কিন্তু আশার কথা হল যে Dengvaxia এর চেয়ে বেশি কার্যকরী ভ্যাকসিন TV003/ TV005 তৈরী করা হয়েছে..।
TV003 Dengue vaccine
Takeda pharmaceuticals has developed TDV and GSK has developed PIDV vaccine against Dengue

"জানালা দিয়ে শুধু স্যাটেলাইট দেখি না....ল্যাবে বুয়াদের পারফেক্ট গ্রি টি বানানো শিখানো ও শেষ পর্যায়ে নিয়ে এসেছি"

মন্তব্য ২৫ টি রেটিং +৬/-০

মন্তব্য (২৫) মন্তব্য লিখুন

১| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সকাল ১১:৫০

জাহিদ হাসান বলেছেন: ডেঙ্গু নিয়ে খুব আতংকে আছি।

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১৬

কলাবাগান১ বলেছেন: মশা থেকে দুরে থাকুন..।এডিস মশা কিন্তু দেখলেই চিনা যায় লম্বা লম্বা পা সাথে সাদা কালো ডোরা কাটা

২| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ দুপুর ১২:২০

ঢাবিয়ান বলেছেন: এই ভ্যকসিন কি এখন দেশে পাওয়া যাচ্ছে ?

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১৫

কলাবাগান১ বলেছেন: স্বাস্হ্য মন্ত্রীকে জিজ্ঞেস করতে পারেন..তবে উনাকে দেশে পাবেন কিনা জানি না

৩| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ দুপুর ১২:৫২

আখেনাটেন বলেছেন: যতদূর জানি ডেঙ্গু ভাইরাসের ভ্যাকসিন যে কয়টা দেশ অনুমোদন দিয়েছে বাংলাদেশে তার মধ্যে নেই? যুক্তরাষ্ট্রেও সম্প্রতি অনুমোদন দিয়েছে সেটাও শর্তসাপেক্ষে-- বয়সসীমা নির্ধারণ করে। ফিলিপাইনের কেইস সবাইকে সতর্ক করে দিয়েছে।

*Dengvaxia ভ্যাকসিন ৪টা ডেংগু ভাইরাস কে প্রটেক্ট করার জন্য ডেভেলপ করা হয়েছে-- এটি মনে হয় লিখতে হত, চার ধরণের ডেঙ্গু ভাইরাস সেরোটাইপকে...

আরো এক ধরণের সেরোটাইপ(DENV-5) মনে হয় পাওয়া গেছে।

সময়োপযুগী বিজ্ঞান পোস্টের জন্য অশেষ ধন্যবাদ।

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:২৭

কলাবাগান১ বলেছেন: ধন্যবাদ সংশোধনের জন্য .চেস্টা করলাম ভুল গুলি ঠিক করার...হ্যা (DENV-5) পাওয়া গেছে।

৪| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ দুপুর ১:৩৩

নতুন বলেছেন: মশার বংস বিস্তার রোধ ছাড়া উপায় নাই।

ভ্যাকসিন যেহেতু শুধুমাত্র যাদের একবার হয়েছে তাদের জন্যই রিকমান্ড করা হচ্ছে তাই আমাদের দেশের জনগনের সচেতন হওয়া ছাড়া উপায় নাই।

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১৯

কলাবাগান১ বলেছেন: অধিকাংশ ১৫-১৬ বছরের অধিক লোকজনের দেহে ডেংগুর এন্টিবডি থাকার সম্ভাবনা প্রচুর ডেংগু প্রবল এলাকায়...তাই এদেরকে টিকা দেওয়া যেতে পারে...অথবা টিকা দেওয়ার আগে রেপিড রক্ত পরীক্ষা করে টিকা দেওয়া যেতে পারে

৫| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ বিকাল ৩:৫৮

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন: বাংলাদেশে প্রতিবছর ডেঙ্গু মহামারী আকার ধারণ করে, একটার পর একটা মহামারী বাংলাদেশ আক্রমণ করছে একসময় আমরা ভুলেও যা্চ্ছি। সময়োপযোগী পোস্টের জন্য ধন্যবাদ।

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১৯

কলাবাগান১ বলেছেন: আমরা ভুললেও ভাইরাস ভুলে না সময় মত জেগে উঠে

৬| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ বিকাল ৪:৩৯

মা.হাসান বলেছেন: ভালো পোস্ট। অনেক ধন্যবাদ। TV003 এর লিংকে দেখলাম DENV-2 strain দিয়ে পরীক্ষা করা হয়েছে, এর মানে কি অন্যগুলার জন্য এটা কাজ করবে না? তা ছাড়া গবেষণায় টিকা দেয়ার ৬ মাস পরে ভাইরাস দিয়ে ইনফেকশনের স্টাডি করেছে। এর মেয়াদ কি সাময়িক, বছর বছর ফ্লুর ভ্যাকসিনের মতো নিতে হবে? নাকি একবার নিলে আজীবন কার্যকর থাকবে? একাধিক স্ট্রেইনের টিকা নিলে কি ভ্যাকসিন-ভ্যাকসিন ইন্টার‌্যাকশন হবে? অনুমান করি সব প্রশ্নের জবাব আমরা এখনো জানি না, যেটুকু এখন পর্যন্ত জানা আছে আলোচনা করলে ভালো লাগবে।
৯০ এর দশকে প্রথম বিজ্ঞানীরা সতর্ক করে যে ঢাকায় এডিস মশা দেখা গেছে। বিজ্ঞানীদের কে পাত্তা দেয়!

কাজের বুয়াদের চা বানানো বা জিংজিং শেখানোর জন্য বুদ্ধুজীবীরা আছেন, ওগুলি নিয়ে দুশ্চিন্তা করবেন না।

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:২৫

কলাবাগান১ বলেছেন: TV003/TV005 তৈরি হয়েছে ৪টা প্রজাতির এন্টিজেন ব্যবহার করেই সুতারাং এটা ৪টা প্রজাতি থেকে সুরক্ষা দিবে।
TV003/TV005 has been licensed to Instituto Butantan (Brazil), Vabiotech (Viet Nam), Panacea Biotech & Serum Institute (India) for in-country manufacture – TV003/TV005 has been licensed exclusively
to Merck & Co. in the U.S. একবারই দিতে হবে টিকা তবে মনে হয় বুস্টার শট লাগবে।

৭| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ বিকাল ৫:৩৫

রাজীব নুর বলেছেন: ব্লিচিং পাউডার আর হরপিক দিয়া যে এত দিন ধইরা মানুষ বাথরুম ধুয়া আসল তার কী হবে এখন?

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:২৬

কলাবাগান১ বলেছেন: মেয়ে ভাল আছে?

৮| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:০৮

দিকশূন্যপুরের অভিযাত্রী বলেছেন: মনে করুন অনেক ভোগান্তির পর ডেংগুর অবসান হল। কিন্তু এতেই শেষ না। আবার নতুন কিছু বের হবে। মহামারি আকারে রূপ নিবে। আমাদের সকলের উচিত একজন সুনাগরিক হওয়া। সকল নিয়ম কানুন মেনে চলা। রাষ্ট্রের উচিত শহর এবং গ্রামগুলোকে ঢেলে সাজানো। নইলে সামনে মহাবিপদ।

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:২৬

কলাবাগান১ বলেছেন: সহমত

৯| ৩১ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ৯:৫০

হাসান কালবৈশাখী বলেছেন:
খুবই জটিল ভ্যাক্সিন। এই টিকা নেয়ার আগে সে পুর্ব ডেংগুআক্রান্ত ছিল কিনা সেটা সহ কিছু ল্যাবটেস্ট দরকার হবে। এছাড়া অনেক ব্যয়বহুল হওয়ার সম্ভাবনা।

এরচেয়ে সহজ এডিস মশার উৎসস্থল বিনস্ট করা

৩১ শে জুলাই, ২০১৯ রাত ১০:২৬

কলাবাগান১ বলেছেন: TV003/TV005 নিয়ে ভাবা উচিত

১০| ০১ লা আগস্ট, ২০১৯ সকাল ৭:৩৭

এলিয়ানা সিম্পসন বলেছেন: Yeah.

০১ লা আগস্ট, ২০১৯ সকাল ৮:০৬

কলাবাগান১ বলেছেন: ওকে...

১১| ০১ লা আগস্ট, ২০১৯ সকাল ৮:১৫

এলিয়ানা সিম্পসন বলেছেন: People with an exposure to Dengue have a higher risk of being infected by Zika.

০১ লা আগস্ট, ২০১৯ সকাল ৮:৪১

কলাবাগান১ বলেছেন: বাট সি দিস..
"existing immunity against dengue virus significantly reduces the risk of Zika-associated microcephaly in newly borns."
https://www.sciencedaily.com/releases/2019/05/190517115140.htm

১২| ০১ লা আগস্ট, ২০১৯ সকাল ৮:৩৯

এলিয়ানা সিম্পসন বলেছেন: There has actually been some different findings recently. The last time I read about this was last year. There is a latest paper from this month.

১৩| ০১ লা আগস্ট, ২০১৯ সকাল ৮:৪২

এলিয়ানা সিম্পসন বলেছেন: Yeah, you are correct. I was surprised to see the new research works.

১৪| ০১ লা আগস্ট, ২০১৯ সকাল ১১:৩৪

শিখণ্ডী বলেছেন: একটা ভিডিও দেখলাম, দিনে তিনবার পেঁপে পাতার জুস খাওয়ালে নাকি ডেঙ্গু সেরে যায়। ঘটনা সত্যি হলে সুসংবাদ।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.