নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

জন্মসূত্রে মানব গোত্রভূক্ত; এজন্য প্রতিনিয়ত \'মানুষ\' হওয়ার প্রচেষ্টায় আছি। গল্পের \'বায়স্কোপ\' বইয়ের কারিগর।

কাওসার চৌধুরী

প্রবন্ধ ও ফিচার লেখতেই বেশি স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। পাশাপাশি গল্প, অনুবাদ, কবিতা ও রম্য লেখি। আমি আশাবাদী মানুষ।

কাওসার চৌধুরী › বিস্তারিত পোস্টঃ

"বায়স্কোপ" - অমর একুশে বইমেলা ২০১৯

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:২১


অবশেষে কিছু অনুভূতি আর কাঁচা মস্তিষ্কের ভাবনা ফ্রেমবন্ধী হলো। জীবনে অনেক কিছু হতে চেয়েছি কিন্তু লেখক হওয়ার দুঃসাহস কখনো হয়নি। নিজের ভাবনাগুলো মলাটবন্দী হবে তা গত দুই বছর আগেও ছিল অবিশ্বাস্য। ১১টি গল্প নিয়ে ১১২ পৃষ্ঠার বইটি প্রকাশ করছে দেশের খ্যাতনামা 'উৎস প্রকাশন'।

কৃতজ্ঞতা জানাই যারা দীর্ঘদিন থেকে ব্লগে আমার লেখা পড়ে পরামর্শ, সাহস ও উৎসাহ দিয়ে সহযোগিতা করেছেন তাদের সবাইকে। আপনাদের আশীর্বাদ ও সহযোগিতা না পেলে আমি এ পর্যন্ত আসতে পারতাম না। সম্মানিত সহ ব্লগার ও পাঠকদের গঠনমূলক কমেন্ট আমার লেখার দূর্বলতা কাটিয়ে উঠতে দারুণভাবে সহায়ক ছিল। এজন্য প্রিয় সামহোয়্যারইন ব্লগ কর্তৃপক্ষের কাছেও কৃতজ্ঞতার শেষ নেই।

বইটি ঢাকার একুশে বই মেলা- ২০১৯ "উৎস প্রকাশন" এর স্টলে পাওয়া যাবে। এছাড়া- নিম্নোক্ত ওয়েবসাইটেও মেলার প্রথম দিন থেকে পাওয়া যাবে।

www.rokomari.com/utsho
www.porua.com.bd
www.boimela.com


লেখক পরিচিতি- (হতভাগা আমি :-B)

জন্ম ও বেড়ে উঠা সিলেট জেলার জকিগঞ্জ উপজেলার এওলাসার গ্রামে। সিলেট সরকারি কলেজ থেকে ইন্টারমিডিয়েট পাশ করেন। মদন মোহন কলেজ থেকে বাণিজ্যে স্নাতক এবং মেট্রোপলিটন ইউনিভার্সিটি থেকে হিউম্যান রিসোর্স ম্যানেজমেন্টে কৃতিত্বের সাথে এমবিএ ডিগ্রি অর্জন করেন তিনি।

পরবর্তীতে উচ্চশিক্ষার জন্য ইংল্যান্ডে পাড়ি জমান। লন্ডন কলেজ অফ একাউন্টেন্সি থেকে একাউন্টিং-এ গ্রেজুয়েশন করার পর বিজনেস ম্যানেজম্যন্টে পোস্ট গ্রেজুয়েশন ডিপ্লোমা করেন। এছাড়া ইংল্যান্ডের ইউনিভার্সিটি অফ বেডফোর্ডশায়ার থেকে ফিনান্সে এমবিএ ডিগ্রি নেওয়ার পর স্কটল্যান্ডের গ্লাসগো থেকে চার্টারর্ড একাউন্টন্সিতেও উচ্চতর ডিগ্রি অর্জন করেন।

ছোটবেলা থেকে সামাজিক বিভিন্ন সংগঠনের সাথে জড়িত থাকার পাশাপাশি বিভিন্ন স্থানীয় পত্রিকা ও ম্যাগাজিনে লেখালেখি করতেন। বেশ কিছুদিন থেকে 'সামহোয়্যারইন' ব্লগেও নিয়মিত লেখালেখি করছেন তিনি। বর্তমানে শিক্ষকতা, গবেষণা ও লেখালেখির পাশাপাশি একটি ইনভেস্টমেন্ট কোম্পানীতে ব্যবস্থাপনা পরিচালক হিসেবে কর্মরত।

"উৎস প্রকাশন"
প্যাভিলিয়ন- ২২
অমর একুশে বইমেলা- ২০১৯; ঢাকা।
বইটির প্রচ্ছদ এঁকেছেন - মুস্তাফিজ কারিগর।


ছবিটি জৈনেক লেখকের!! মঙ্গল গ্রহের খ্যাতনামা একজন প্রয়াত রাইটার তিনি!! তবে কবর থেকে উঠে এসে বইমেলায় থাকবেন বলে আশ্বস্ত করেছেন প্রকাশনীকে !! বইটি কিনলে ফ্রিতে একখানা অটোগ্রাফও দিবেন!! তবে অটোগ্রাফে কি লিখিতে হয় সে অভিজ্ঞতা তিনার নেই!!

মন্তব্য ৯৩ টি রেটিং +২২/-০

মন্তব্য (৯৩) মন্তব্য লিখুন

১| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:২৮

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: অভিনন্দন হে! নিরন্তর শুভকামনা আপনার জন্য।।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১:৩৮

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



ধন্যবাদ, প্রিয় কবি; আপনি কবিতার মতোই চমৎকার ও প্রাণখোলা একজন বুদ্ধিমান ও মেধাবী মানুষ। ব্লগে আসার পর থেকে নিয়মিত আপনার কবিতা পাঠ করছি। এমন গুণী একজন সহ ব্লগারের কাছ থেকে প্রথম মন্তব্যটি পেয়ে দারুণভাবে প্রেরণা পেলাম। আপনাদের ভালবাসা, সহযোগিতা আর গঠনমূলক কমেন্ট আমাকে বই প্রকাশে সাহস যুগিয়েছ। আশীর্বাদ করবেন, প্রিয় কবি। দেখা হবে বইমেলায়।

শুভ কামনা রইলো। আগামীর পথচলা নিরাপদ হোক। কবিতাগুলো ডানা মেলুক।

২| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:৪২

নাঈম জাহাঙ্গীর নয়ন বলেছেন: অভিনন্দন ও শুভকামনা আপনার 'বায়স্কোপ'-এর জন্য।

আনন্দিত হলাম জেনে

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১:৪১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা রইলো, প্রিয় "নয়ন" ভাই। আশীর্বাদ করবেন। আশা করি, বইমেলায় আসবেন; দেখা হবে। আপনিও সব সময় ভাল থাকবেন। শুভ কামনা রইলো।

৩| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:৪৮

নাহিদ০৯ বলেছেন: অভিনন্দন। অবশ্যই কালেকশন করবো। আপনার বই দেখে আনন্দ লাগছে আমারও।

এখন শুয়ে পড়েছি, কালকে সকালেই goodreads এ যোগ করে দিবো। আপনি আমার মেইল ([email protected]) এ একটা মেইল করবেন প্লিজ।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১:৪৮

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



অনেক অনেক ধন্যবাদ প্রিয় "নাহিদ" ভাই। বইটি কালেকশন করবেন জেনে দারুণ ভাল লাগার এক অনুভূতি হলো। goodreads এ বইটি যোগ করবেন!! কৃতজ্ঞতা জানাই নাহিদ ভাই। এটা আমার জন্য পরম সৌভাগ্যের। আমি অবশ্যই আপনাকে মেইল করবো; চাইলে [email protected] -এ মেইল করতে পারেন।

শুভ রাত্রি। ভাল থাকুন, সব সময়।

৪| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:৫৯

আরোগ্য বলেছেন: অভিনন্দন কাওসার ভাই।
এবার দেখি বইমেলায় সিলেটি ব্লগারদের জয়জয়কার। খুবই ভালো। আপনারা আমাদের গর্ব।
বইতে আপনার অটোগ্রাফ নিবো ইনশাআল্লাহ।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ২:০২

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আরে, আমার "আরেগ্য" ভাইজান!!
ভাইয়ের আন্তরিক অভিনন্দন সানন্দে গ্রহণ করিলাম। এবার কি সত্যি সত্যি অনেক সিলেটি লেখকের বই প্রকাশিত হচ্ছে? তবে সে যাই হোক; যারা বাংলা ভাষায় লিখেন তাদের একটাই পরিচয় লেখক; অথবা বাঙালি লেখক। সারা বাংলা ভাষাভাষী হলেন লেখকের একটি যৌথ পরিবার। আর পাঠকরা হলেন লেখকদের আত্মার আত্মীয়। পাঠকরা পড়েন বলেই; একজন কলম সৈনিক লেখক হয়ে উঠেন।

বইতে ফ্রি অটোগ্রাফ দেওয়ার ইচ্ছা আছে!! তবে আগে আসলে আগে পাবেন ভিত্তিতে দেওয়া হবে। দৈনিক কোটা শেষ হয়ে গেলে কিন্তু পরের দিন আসতে হবে!! তবে অতিরিক্ত বকশিশেও কাজ হতে পারে!!

শুভ রাত্রি।

৫| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১:০৬

রোকসানা লেইস বলেছেন: পাঠক প্রিয় হোক বই এই কামনা।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ২:১৩

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আপা, আপনার "লেখক ও পাঠক" শিরোনামে একটি গুরুত্বপূর্ণ লেখা কিছুদিন আগে পড়েছিলাম। চমৎকারভাবে যুক্তি দিয়ে কিছু বিষয় লেখায় তুলে এনেছেন। সত্যিই তো, কত বাজে আর নিম্নমানের ভিডিও ভাইরাল হয় অথচ ভাল মানের বইগুলোও এর সিকিভাগ প্রচার পায় না :(। আসলে সস্তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো মানুষের বই পড়ার আগ্রহ আর ধৈর্য্যকে একদম কমিয়ে দিয়েছে। পাবলিকও সস্তা বিনোদন চায়। তবে এত কিছুর পরও বইয়ের পাঠক কিন্তু কমেনি। এটা ভাল লক্ষণ। বই হোক জ্ঞান অর্জনের অন্যতম মাধ্যম। আপা, বই মেলায় দেখা হবে আশা করি।

শুভ রাত্রি, আপা।

৬| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১:১৬

মাহমুদুর রহমান সুজন বলেছেন: অভিনন্দন কাওসার ভাই। বইটির বহুল প্রচার কামনা করছি। সংগ্রহ করার আগ্রহ নিয়ে শুভ কামনা নিরন্তন।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ২:৩১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



অনেক অনেক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা রইলে, প্রিয় মাহমুদ ভাই। বইটার জন্য আশীর্বাদ করেছেন দেখে খুব খুশি হলাম। বইমেলায় দেখা হবে। ভাল থাকবেন, সব সময় ভাই।

৭| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১:৪৭

ভ্রমরের ডানা বলেছেন: অভিনন্দন সুপ্রিয় লেখক! লেখকগিরি সফল হোক!

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ২:৩৬

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



কই হারালেন, আপনি? মনে হয় সর্ষে ক্ষেতে লুকিয়ে ছিলেন। আচ্ছা ব্লগে এতো কম দেখি কেন? ভাল লেখক/কবিরা না লিখলে আমার মত পাঠকরা কি করবে? যতই অজুহাত থাক; লিখতে হবে। আর বইমেলায় আসবেন কিন্তু; সময় সুযোগে এই বান্দার সাথে একটু দেখাটেখা কইরেন!!

ভাল থাকুন; আর চমৎকার কবিতা লিখুন।

৮| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১:৪৮

শিখা রহমান বলেছেন: কাউসার অভিনন্দন ও শুভকামনা রইলো।

আপনার কাছে থেকে ফ্রি অটোগ্রাফ নেবো কিন্তু। দেখা হচ্ছে তাহলে ফেব্রুয়ারীর দ্বিতীয় সপ্তাহে। :)

বইয়ের সাফল্য কামনা করছি। ভালো থাকুন প্রিয় ব্লগার।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ২:৪১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আরে, আমার আপুনি!! কবে দেশে আসবেন? বইমেলায় দেখা হবে, আপনার বইখানাও কিনা হবে। অটোগ্রাফ ফ্রি দিতে পারবো কিনা জানি না; তবে ১০০ ডলারের একখান বিল/নোট ধরিয়ে দিলে কিন্তু না করবো না!! ফেফেব্রুয়ারির দ্বিতীয় সপ্তাহে দেখা হবে, প্রাণের মেলায়।

দোয়া করি সুস্থ থাকুন; আর নিরাপদে মাতৃভূমিতে আসুন।

৯| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ২:০৭

স্বপ্নের শঙ্খচিল বলেছেন: অভিনন্দন কাওসার ভাই। বইটির বহুল প্রচার কামনা করছি।
.............................................................................
অত্যন্ত ভালো লাগছে , তাহলে আমরা লেখকের সন্ধান পেলাম ।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ২:৪৫

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা রইলো প্রিয় "স্বপ্নের শঙ্খচিল" ভাই। বইটির বহুল প্রচার কামনা করায় কৃতজ্ঞতা রইলো। হ্যা, মঙ্গল গ্রহের লেখকের সন্ধান অবশেষে পাওয়া গেল। মেলায় আসলে তিনাকে সরাসরি দেখতে পাবেন!! ভাল থাকুন, সব সময়।

১০| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ৩:১৬

বলেছেন: মাশাল্লাহ ---

বহুল পাঠকপ্রিয়তা কামনা করছি।


বাংলা সাহিত্য ভান্ডার সমৃদ্ধ হোক" ধ্রুপদী লেখক" কাওছার চৌধুরীর তথ্য বহুল বইটির আনন্দপাঠে।



শুভ কামনা প্রিয় ভাই।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ৩:৪৩

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



প্রিয় ভাই আমার। গত কিছুদিন ব্লগে নিয়মিত না থাকায় আপনার সব কবিতা পড়া হয়নি। সময় করে পড়বো অবশ্যই। আমি আসলে মনের খেয়ালে নিজের ভাবনাটুকু নিজের মত করে লিখি। এগুলো বাংলা সাহিত্যকে সমৃদ্ধ করার মত মোটেও নয়। দোয়া করবেন যাতে লেখার মান দিনকে দিন বাড়াতে পারি। আপনার বুদ্ধিদীপ্ত মন্তব্যগুলো আমার লেখনিকে এগিয়ে নিতে দারুণভাবে প্রেরণা যোগায়।

অফটপিক, কবে দেশে আসছেন? ব্লগে বইয়ের আপডেট দিবেন, এতে পাঠকদের বইয়ের স্টল খুঁজে পেতে সুবিধা হয়। দোয়া করি ভাল থাকুন সব সময়। আর বই মেলায় প্রকাশিতব্য আপনার দু'টি চমৎকার বইয়ের জন্য শুভ কামনা রইলো।

শুভ রাত্রি।

১১| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ৩:৪৫

আকতার আর হোসাইন বলেছেন: কেমন আছেন প্রিয়?

লেখা পড়লাম না। তবে ফ্ল্যাপের লেখাটা পড়েছি।। বইটা পড়ার আগ্রহ থাকল।

তো ছোট্ট একখান ভুল হয়েছে। কাওসার চৌধুরী জন্ম ও বেড়ে..... কাওসার চৌধুরীরর জন্ম ও বেড়ে ওঠা....

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ৩:৫৩

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা রইলো প্রিয় "আকতার" ভাই। ফ্ল্যাপের লেখাটা পড়েছেন জেনে খুশি হয়েছি। কাওসার চৌধুরীরর জন্ম ও বেড়ে ওঠা অংশে কাওসার চৌধুরী হয়ে গেছে; বিষয়টি প্রকাশনীকে জানিয়েছি আগে। এটি সংশোধন হওয়ার আগের ফ্ল্যাপ। আশা করি, বইতে ঠিকঠাক হবে।

আপনার কোন বই কি আসছে, এবার? বইমেলায় আসলে দেখা হবে আপনার সাথে। ভাল থাকুন সব সময়; শুভ কামনা রইলো ভাই। দোয়া করবেন আমার বইটার জন্য।

১২| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ৩:৪৬

আকতার আর হোসাইন বলেছেন: শুভকামনা আপনার জন্য...

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ৩:৫৫

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:
ধন্যবাদ ভাই আবারো শুভ কামনা জানিয়ে যাওয়ার জন্য।

১৩| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ৩:৫৮

সোহানী বলেছেন: অটোগ্রাফ দেবার জন্য পূর্ব কোন অভিজ্ঞতার দরকার নেই। যেমন এটি ডিপেন্ড করে কে অটোগ্রাফ চাইছে!! সুন্দরী কোন তরুনী হলে মনের ভাব এমনিতেই চলে আসবে আবার কোন খালাম্মা বা আংকেলের সাথে সুন্দরী মেয়ে থাকলে তার জন্য ও পূর্ব প্রস্তুতির দরকার নেই ;)

যাহোক শুভকামনা। বইটি সংগ্রহের চেস্টা করবো তবে কিভাবে জানি না। পড়ার আগ্রহ থাকলো। কারন প্রিয় লেখকদের বই পড়ার আনন্দই আলাদা। তবে বইমেলার সে দিনগুলো খুব মিস করি। আহ.... কবে যে যেতে পারবো জানি না।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৪:১৭

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আপুমনি B-)!!
লেখককে চরম দুশ্চিন্তা থেকে রক্ষা করলেন!! তবে সমস্যা হলো অতীব সুন্দরী কোন রমনীর সামনে মুখোমুখি দাঁড়ালে আর চোখাচোখি হইলে লেখকের দুই হাঁটু থর থর করে কাঁপা-কাঁপি শুরু করে; চল্লিশোর্ধ্ব সুন্দরী খালাম্মাদের বেলায়ও একই সমস্যা হয়!! এটা কী অতি মনের ভাব কিংবা কল্পনা থেকে আসে? বুঝে না এই বালক লেখকের মন। তখন কণ্ঠনালীতে অক্টোপাসের মত কিছু একটা দম আটকে রাখে, যাতে মনের ভাব কইতে না পারি!!

আর খালাম্মা কিংবা আঙ্কেলের সাথে অষ্টাদশী থাকলে আরো বিপদ!! ভয় করে যদি না আবার অতি কাঁপা-কাঁপিতে অতীব সুন্দরীদের উপরে ডলে পড়ি!! হে পরওয়ার দিগার রক্ষা করিও এই অনভিজ্ঞ বালককে!!

বইটি সংগ্রহ করতে হবে না; এই বান্দা ডিএইচএল (DHL) করে একখান কপি আটলান্টিকের ওপারে পাঠাবে। কথা দিলাম। বই মেলায় থাকলে খুব খুশি হতাম, আপু। আমার প্রিয় মেন্টর আর গাইডবুক ছাড়া মেলায় পানসে লাগবে। যাক, কি আর করা! আগামীতে কোন এক বইমেলায় ঠিকই আসবেন। একদম মন খারাপ করা চলবে না।

১৪| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৪:০৪

বলেছেন:

আপনি মনের মাধুরি মিশিয়ে মাধুকরী সুবাস ছড়িয়ে দেন লেখায় তাতেই পাঠক হৃদয়ে আঁকা হয় এক ধ্রুপদী লেখকের নাম।

শুভ কামনা।

দেশে মনে হয় বছরের শেষের দিকে আসা হবে -

আমার নেক্সট বইতে আপনাকে প্রধান অতিথি হিসেবে প্রকাশনাা অনুষ্ঠান করবো -- ইনশাআল্লাহ।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৪:৩০

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



বাহ, দারুণ তো। তবে, আমি বইমেলা থেকে সংগ্রহ করবো, কপি দু'টি। খুব ভাল লাগছে প্রিয় ভাইয়ের চমৎকার দু'টি কাব্যের বই একসাথে প্রকাশিত হয়েছে দেখে। আপনি বিদেশে বসে ভিন্ন একটি পরিবেশ, সংস্কৃতি আর সংসারে এতো ব্যস্থতার মাঝেও কাব্যের মতো কঠিন একটি সাধনা চালিয়ে যাচ্ছেন তা দেখে দারুনভাবে খুশি হই। নিখুঁত ছন্দে আর মানবিক মূল্যবোধে চলুক কবিতার জয়োৎসব। আপনার লেখনির মাধ্যমে সমৃদ্ধ হোক, বাঙাল সাহিত্য ভান্ডার; এই দোয়া সব সময় থাকবে।

আপনার নেক্সট বইয়ের প্রকাশনাতে অবশ্যই যাব শ্রুোতা হয়ে; আপনি সহ গুণীজনের কথামালা শুনতে। যাতে নিজের জ্ঞানের ভান্ডারটা বাড়াতে পারি। অতিথি হওয়ার যোগ্যতা এখনো অর্জিত হয়নি আমার।

১৫| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৫:৪৮

বলেছেন: ছবিটা কিন্ত দারুণ হয়েছে - ছবি দেখে কেউ " ক্রাশ" হলে লেখক দায়ী নয়!!!

ব্যাক্তিগত জীবনে লেখক - চির ব্যাচেলার ---মজা করলাম

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৬:০২

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



ছবিটা এমনিতেই তুলেছি; কোন প্লান ছিল না। বাসার সিটিংরুমে দাঁড়িয়ে। তবে ক্রাশ!! নো চান্স, লতিফ ভাই। মাইয়ারা এখন এতো এতো ইয়াং পোলাপান থাকতে এই গোবেচারা নিরামিষ বালকের ক্রাশের পাল্লায় পড়বে না!! চির ব্যাচেলর হওয়ার মজাই আলাদা। কোন পেইন টেইন নেই, স্বাধীন সত্তা।

১৬| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৬:০৮

পাঠকের প্রতিক্রিয়া ! বলেছেন: ওই ব্যাটা, চোরের মত রাইতে ব্লগিং করস ক্যান?

বইয়ে কি ব্লগের গল্পগুলোই কপি-পেষ্ট মারা?


এটা কী বুক রিভিউ নাকি বিবাহ বিজ্ঞপ্তি?(শুধু নিজের হিসটিরি লিখছস ক্যান?)

ফটোতে রঙ মাখানো অভ্যেসটা তোর গেল না, চুলেও আর স্টাইল করা। তুই আর মানুষ হলি না, হিরোই রইলি।।;)

আজ সকালে উঠেছি। একটা ছোটখাট ট্যুরের প্ল্যান আছে। কোথাও আমার হারিয়ে যাবার নেই মানা....:D

গেড়াকল. নিকটারে আমি চিনি।
পুনশ্চঃ বইমেলাতে গেলে অটোগ্রাফ নয়, ফটোগ্রাফ নেব। আমার কিন্তু চিনতে পারবানা মনু!!:D

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১২:৩১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



ভোর ছয়টায় জানেমনের চমৎকার প্রতিক্রিয়া B-)!! আমি মনু রাইত জাইগা ব্লগখানা পাহারা দেই; তো আপনি ভোর ছয়টায় কিয়া করেন? সারা রাইতে ইমোতে টাংকি মারি ঘুমোতে যাইবেন, নাকি গার্মেন্টসের সুন্দরী মাইয়াদের লগে টাংকি মারতে সকালবেলা গলির মোড়ে খাড়াইবেন :-B!!

এটা কি বুক রিভিউ!?! -জে-না-; ইহা লেখক পরিচিতি। তয় কোন সুন্দরী লেখক পাত্র খুঁজতে আইলে সিভি হিসেবেও চালিয়ে দেওয়া যাবে। তয় একখান পবলেম আছে; এখানে বালক লেখকের পয়দার তারিখ নেই। তবে চাইলে চতুর সুন্দরীরা ছবিখান দেখে অনুমান করতে পারিবেন। তয় পুরুষ মানুষ আশিতেও যুবক!!

ইয়াং মানুষ তাই রং টং এর প্রতি একটু দুর্বলতা আছে মনু। হেই জন্য খোঁটা দিলা ক্যান B:-)

কই যাবেন ট্যুরে!! সাথে পিএস/টিএস আছে নাকি? সিলেটে চইলা আহেন; দারুণ সময় কাটবে কইলাম। আর বইমেলাতে গেলে পরিচয় দিতেই হবে মনু। না হলে কোন সুন্দরী মোর ফটু তুললে ভাববো, মন্ডল বাড়ির কোন অষ্টাদশী সুন্দরী হবে :)।।

১৭| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৬:১৪

বলেছেন: বইয়ের নামের সাথে লেখকপর ছবির দারুণ মিল --যেন বাপ্পা দার গান ---


তোমার বায়োস্কোপ বইয়ের মলাটে দেখেছিলাম---
মায়াবী চাহনি,রসগর্ভেে ভরা এ্যারাবিয়ান নায়কের মুখ --
এমন হিরোর মায়াবী মুখের নেশায় আমায় ছাড়েনা----
গোবেচারা নিরামিষ বালক যে প্রমিতিউজ সে তো জানে না ---
মায়াবী মুখের নেশায় আমায় ছাড়েনা -----


"দুজন চৌধুরী" আমার খুব প্রিয় মানুষ একজন এপার বাংলাট আরেকজন ওপার বাংলার
তাদেরকে কেউ প্রিয় করে নিলে লাভবান হবে বৈকি..... ---






২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১২:৪৩

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



বাহ, দারুণ কাব্য লতিফ ভাই। আপনার মত গুনীজনের ভালবাসা পাওয়া আমার জন্য পরম সৌভাগ্যের। ওপারের প্রিয় পদাতিক চৌধুরী আমার আত্মার আত্মীয়। একজন বড় ভাইয়ের মত। বায়স্কোপ নামটি প্রকাশকের প্রথমে পছন্দ হয়নি; কিন্তু বইটাতে একটি গল্পে একজন বায়স্কোপওয়ালার চমৎকার একটা চরিত্র আছে। পড়লে পাঠকরা বায়স্কোপ নিয়ে আমাদের ঐতিহ্যের কথা, জীবনের কথা, আবেগের কথা জানবেন। আমাদের সংস্কৃতির সাথে বায়স্কোপের সম্পর্ক দীর্ঘদিনের। কিন্তু নতুন প্রজন্ম এগুলো সম্বন্ধে তেমন অবগত নয়। মূলত এই ঐতিহ্যকে নতুন জেনারেশনের কাছে পরিচিত করে তুলতেই "বায়োস্কোপ" নাম দেওয়া।

১৮| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৬:১৯

চাঁদগাজী বলেছেন:



অভিনন্দন রলো; আশাকরি, পাঠকেরা খুশী হবেন।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১২:৫০

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



অনেক অনেক ধন্যবাদ শ্রদ্ধেয়। আমার ব্লগিংয়ের উন্নতির জন্য আপনার ভূমিকা অনেক। আপনার কাছ থেকে অনেক কিছু শিখেছি। আপনার পোস্ট ও কমেন্ট পড়ে নিজের ভাবনার পরিধিটুকু বাড়িয়ে নিয়েছি। এজন্য কৃতজ্ঞতাবোধ সব সময় আছে। আশীর্বাদ করবেন আমার বইটার জন্য।

দোয়া করি, আপনি সুস্থ থাকুন; আর ব্লগে আরো অনেক বছর ধরে নিজের জ্ঞানটুকু বিলিয়ে দেন। ভাল থাকবেন।

১৯| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ৭:২৫

ঢাবিয়ান বলেছেন: অনেক অনেক অভিনন্দন ও শুভকামনা রইল। আমরা যার বইমেলায় শত ইচ্ছে থাকলেও যেতে পারব না, তারা আশা করছি ''বায়োস্কোপ'' এই ব্লগেই পড়ার সুযোগ পাব। তবে ব্লগারদের ফ্রি বই পড়ার সম্মানিটা ব্লগ কতৃপক্ষের কাছ থেকে আদায় করে নিয়েন। :`>

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১২:৫৬

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



প্রিয় "ঢাবিয়ান" ভাই;
আপনার অভিনন্দন বার্তা আমার জন্য বিশেষ কিছু; পরম সৌভাগ্যের। আপনি কি এখন দেশের বাইরে? ব্লগাররা তো পরিবারের আপনজন। এজন্য পয়সা লাগবে না B-)। তবে পরিবারের অন্য কারো জন্য অবশ্যই মেলা থেকে কিনবেন!! প্রিয়জনকে উপহার দিবেন। আর ভালবেসে এই বালক লেখকের একখান কিতাব সংরক্ষণ করবেন।

২০| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ৭:৩০

নজসু বলেছেন:





অভিনন্দন, শুভকামনা এবং নিরন্তর ভালোবাসা রইলো প্রিয় ভাই।
আপনার এবং বায়স্কোপের সফলতা কামনা করছি।
প্রিয় হতভাগা ভাইয়ের বইটি অনলাইন হতে নিশ্চয়ই ক্রয় করবো।
ভালো থাকবেন।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১:০২

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আরে আমার 'সুজন' ভাই B-)!!
ভাইয়ের অভিনন্দন সানন্দে গ্রহণ করিলাম। বায়স্কোপের সফলতা কামনা করেছেন এজন্য কৃতজ্ঞতা রইলো। হতভাগা এই বালকটির বই অনলাইন থেকে সংগ্রহ করবেন জেনে দারুণভাবে প্রেরণা পেলাম। এটা আমার পরম সৌভাগ্যের। বই মেলায় আসবেন, কথা হবে।

ভাল থাকুন, প্রিয় ভাই।

২১| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ৭:৫৬

জনৈক অচম ভুত বলেছেন: মঙ্গলগ্রহের লেখকের বই পৃথিবীবাসীর জন্য উন্মুক্ত হচ্ছে, এ তো বড়ই আনন্দ সংবাদ! ধন্যবাদ আপনাকে এমন মহৎ উদ্যোগ নেবার জন্য। :#)

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১:০৮

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



হুম!! এই পরতম মঙ্গল গ্রহের একজন বালক লেখকের বই পৃথিবীর বইমেলায় আসিতেছে। লেখক অনেক বছর আগে ইহলোক ত্যাগ করিলেও মঙ্গল গ্রহের তরিকায় আবার জেগে উঠিতে পারেন; তাই তিনি বইমেলায় আসিবেন; বিনা মূল্যে অটোগ্রাফও দিবেন!! তবে, অচম ভুতের সাথেও তিনার মিল আছে।

মেলায় আইসেন, দেখা হবে ভূতের সাথে!!

২২| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ৮:৩২

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: শুভ সকাল গুরুদেব,

আমি অভিভূত ! মুগ্ধও । প্রিয় গুরুদেবকে এভাবে ফ্রেমবন্দি আকারে দেখে ভীষণ আনন্দ পেলাম। বায়স্কোপের জন্য অগ্রিম শুভেচ্ছা রইল।

শ্রদ্ধেয়া সোহানীআপুর প্রতিমন্তব্যে বালক লেখকের পরিচয় পেয়ে ভীষণ দুশ্চিন্তিত হয়ে পড়লাম। হায়রে!! মা- বাবাকে দূরে রেখে বালকলেখক কী করে যে আসন্ন কঠিন সময়টি কাটাবে - যারপরনাই চিন্তিত !!! উপরওয়ালা রক্ষা করুন। যেন কোন পরী বা বেহেশতের হুর ছোট্ট মাসুম লেখককে আসন্ন বিপদ থেকে উদ্ধার করেন। হা হা হা ....




২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ২:০২

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



গুরুজি B-);
আমার একজন বড় ভাই, একজন গুরু আর একজন গাইড হলেন আপনি। কাঁটাতারের ওপারের দু'জন পরম আত্মীয়ের একজন আপনি (অপরজন 'সান্তনু' দাদা)। আমার এলোমেলো ভাবনাগুলো মলাটবন্দী হবে তা কল্পনাতীত ছিল। একজন গুণী লেখক একবার বলেছিলেন, যারা জীবনে কিছুই হতে পারেনি তারাই লেখক হয়। কারণ, লেখক হতে ইন্টারভিউ লাগে না; কোন কঠিন সিলেবাস তোতাপাখির মত মুখস্থ করতে হয় না।

আমি জীবনের ব্যর্থতাকে কলমের কালিতে পুষিয়ে দেওয়ার চেষ্টা করছি মাত্র।

শ্রদ্ধেয়া সোহানী আপুর চমৎকার মন্তব্য বালক লেখকের ভাবনাটাকে কিছুটা ঘোচালেও ভয় রয়ে গেছে!! ভাবছি বই মেলায় ভয় কাটাতে দু'জন সুন্দরী বডিগার্ড নিয়োগ করিবো; যাতে কোন অতীব সুন্দরী কাছে ঘেষতে না পারে!! দেখা যাক, এই বালকের প্রতি সুন্দরীরা আকৃষ্ট হয় কিনা!!

পরী কিংবা বেহেস্তের হুর আইলে তো আরো বেশি দুশ্চিন্তা!! ইনারা যদি ছিনতাই করে আসমানে তুলে নিয়ে যান তাহলে মোর এতো এতো সুন্দরী ফলোয়ারের কি হইবেক? ইনাদের কষ্ট পৃথিবী সহ্য করিবে না!! গুরুজি, বইমেলায় দাওয়াত রইলো, সপরিবারে। সময় সুযোগ হলে একবার ঘুরে যান, ভাল লাগবে।

ভাল থাকুন, গুরুজি। অনেক অনেক শুভ কামনা রইলো।

২৩| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ৮:৩৭

রাকু হাসান বলেছেন:

বাহ এসেই সকালে সু খবর পেয়ে ভালো লাগছে । অনেক শুভকামনা করছি । ইনশাআল্লাহ্ ভাইয়ের বইটি সংগ্রহ করবো । :) এটা অনুমেয়ই ছিল । ভাবছিলাম নিশ্চয় বই বের হবে আপনার । সংবাদ পেলামও ।গল্পগুলো কি ব্লগে প্রকাশিত ?
শুভ সকাল ভাইয়া । অনেক দোয়া করছি

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ২:২০

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



বাহ!! চমৎকার আশীর্বাদ আর গুড মর্নিং কার্ড পেয়ে দারুন খুশি হলাম। প্রিয় রাকু হাসান ভাইয়ের কমেন্ট মানেই বিশেষ কিছু। বইমেলায় দেখা হবে, কথা হবে নিশ্চয়ই। আসলে এবার বই হবে এটা নিয়ে খুব বেশি সিরিয়াস ছিলাম না। প্রকাশনাতে পান্ডুলিপি জমা দিয়ে আর কোন যোগাযোগই করিনি!! প্রকাশক মহোদয় একদিন ফোন দিয়ে জানালেন তিনি বইটি ছাপাবেন বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। সবকিছু খুব দ্রুত হয়ে গেল। হ্যা, গল্পগুলো ব্লগের। তবে, বেশ কিছু পরিবর্তন করেছি ফাইনাল প্রুফে।

ভাল থাকুন, সব সময় ভাই।

২৪| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ৮:৪৫

মুক্তা নীল বলেছেন: ভাইজান, অভিনন্দন ও শুভ কামনা করছি।
বই তো অবশ্যই কিনবো এবং পড়বো, ইনশাআল্লাহ।সিলেটে প্রচার কেমন করেছেন?
বায়োস্কপের সাফল্য হবেই, হতে হবে। আপনারা জন্যে দোয়া রইলো। সফলতা বয়ে আসুক আপনারা এই পথচলায়। ভালোথাকবেন।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ২:৩৩

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আরে, আমার "মুক্তানীল" আপু-
আসলে বই বের করার ইচ্ছা থাকলেও কোন তাড়াহুড়ো ছিল না। আপনি কি ঢাকার একুশে বইমেলায় যাবেন? গেলে দেখা হবে নিশ্চয়ই। সিলেট কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার চত্তরেও ১-১৫ ফেব্রুয়ারি বইমেলা হবে। "উৎস প্রকাশন" এর স্টল সিলেটে থাকবে। বইটি এজন্য সিলেটের মেলায়ও পাওয়া যাবে।

আর প্রচার!! আসলে ফেইসবুকে যারা আছেন তারা আমার লেখালেখির খবর রাখেন। তবে নিজে থেকে প্রচার প্রচারণা করা হয়নি। সিলেটের কোন লেখক ফোরামের সাথে কোন যোগাযোগ নেই। আমি একটু নিভৃতচারী। লুকিয়ে থাকতে পছন্দ করি।

বায়স্কোপের জন্য আশীর্বাদ করবেন, আপু। ভাল থাকবেন সব সময়।

২৫| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ৯:৪৮

রাজীব নুর বলেছেন: দেখা হবে বই মেলায়।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ২:৪০

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



খুব ইচ্ছে প্রিয় রাজীব ভাইয়ের সাথে দেখা হওয়ার। বইমেলায় দেখা হবেই হবে। আপনার কি কোন বই এবার মেলায় আসছে। সংগ্রহ করার ইচ্ছে আছে প্রিয় ভাই। ভাল থাকুন B-)

২৬| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ১১:২৭

আকতার আর হোসাইন বলেছেন: নাহ ভাই। কোন বই এখন পর্যন্ত লেখা হয়নি। তবে বুকের ভেতর প্রবল ইচ্ছে, একদিন আমার লেখা ছাপার অক্ষরে প্রকাশ হবে। মাত্রই তো ইন্টারমিডিয়েট পাশ করলাম। বই পড়ার অভ্যাসটা এখনো পূর্ণ হয়নি। প্রচুর পড়ব, প্রচুর।

তারপর কোন একদিন লেখার চেষ্টা করব। দোয়া করবেন

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ২:৪৫

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



লিখুন মন খুলে মনে যা চায়। লেখতে লেখতে একটা সময় মৌলিক লেখা চলে আসবে। এজন্য লেখার অভ্যাসটা রাখুন। আশীর্বাদ করি, আপনার কলমের যাদুতে যেন বাংলা সাহিত্য একদিন সমৃদ্ধ হয়। সামনে অফুরন্ত সময় পড়ে আছে। বই বের হবে নিশ্চয়ই। আমরা পড়বো, অন্যদেরও পড়তে উৎসাহিত করবো।

শুভ কামনা রইলো।

২৭| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ১১:৫০

হাবিব স্যার বলেছেন: প্রিয় কাউসার চৌধুরি ভাই, খুব ভালো লাগছে আপনার বই প্রকাশ করার কথা জেনে। আশা করি দেখা হবে বই মেলায়। শুভ কামনা আপনার জন্য!

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ২:৫০

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আরে আমার প্রিয় স্যার!!
হাবিব ভাই, আপনি তো ব্লগটিকে সারাক্ষণ মাতিয়ে রাখছেন। দারুন ছন্দে কবিতা/ছড়া লেখেন প্রতিনিয়ত। আসলে হঠাৎ করেই বই প্রকাশ। কোন প্লান-টান আগে থেকে ছিল না। বইমেলায় আসবেন, দেখা হবে, গল্প হবে নিশ্চয়ই।

শুভ কামনা রইলো, স্যারের জন্য।

২৮| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১:৪৯

নতুন নকিব বলেছেন:



আমাদেরই একজনের বই প্রকাশের সংবাদে আনন্দিত।

সাফল্য কামনা করছি।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৩:৩৪

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



অনেক অনেক ধন্যবাদ প্রিয় নকিব ভাই। দোয়া করবেন, বইটার জন্য।

২৯| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ২:০১

মনিরা সুলতানা বলেছেন: অভিনন্দন ! অভিনন্দন !
দারুণ ব্যাপার নিঃসন্দেহে; অনেক অনেক শুভ কামনা আপনার জন্য।
অবশ্যই সংগ্রহে রাখাবো।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৩:৩৯

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আপা, আপনি তো আগেই শুভেচ্ছা জানিয়েছেন; তবুও ব্লগে আবারো আশীর্বাদ করলেন!! এটা আমার জন্য অনেক সম্মানের। আপনি গুণীজন। আপনাদের লেখা পড়েই লেখতে প্রেরণা পাই। আগামী বইমেলায় একটা কবিতার বই চাই, আপা। আপনার পরিশ্রম আর মৌলিক ভাবনাগুলো মলাটবন্দী হোক এই কামনা রইলো।

আপা কি মেলার সময় দেশে থাকবেন? ভাল থাুকুন, পরিবারের সবাইকে নিয়ে।

৩০| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৩:৪৮

জোবাইর বলেছেন: ভাই, লেখক আপনি অনেক থেকেই হয়ে আছেন। তবে এবার প্রথমবারের মতো ছাপানো বইয়ের লেখক হিসাবে অভিনন্দন ও শুভ কামনা রইলো। বইয়ের লেখক হিসাবে আমার কিছু অভিজ্ঞতা এখানে আপনার সাথে শেয়ার করছি।

আজ থেকে প্রায় ১০ বছর আগে কয়েকটি বই প্রকাশনার উদ্যোগ নিয়েছিলাম। বইগুলোর বিষয়বস্তু ছিল মননশীল ও জ্ঞানপিপাসু পাঠক, স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী বিশেষ করে নবম-দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্রছাত্রীর উপযোগী। বাংলাদেশে নবম-দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্রছাত্রীর সংখ্যা প্রায় ৩০ লক্ষের ওপরে হবে। বইগুলো যদিও প্রায় বেশির ভাগ বইয়ের দোকানে দেখা যায়। তাছাড়া অনেক ছাত্রছাত্রী-শিক্ষকও বইগুলোর প্রশংসা করেছে। কিন্তু প্রকাশককে জিজ্ঞাসা করলে গদবাঁধা জবাব - 'বই মোটামুটি চলতেছে, গত দুই বছর আগে আরো এক হাজার ছাপিয়েছিলাম। ওগুলো এখনোও শেষ হয়নি।' বইয়ের লে-আউট, প্রিন্টিং ও বাইন্ডিংয়ের মান খুবই বাজে। প্রকাশকরা খুবই কম খরচে বই বানিয়ে বাজারে ছেড়ে বেশি মুনাফা পেতে চায়। আমার হাতে আরো কয়েকটি বইয়ের খসড়া করা আছে। মূল পান্ডুলিপি করার আগ্রহ ও মোটিভেশন কোনটাই পাচ্ছি না। কারণ প্রকাশক আমাকে বলেন, কোনো বই যদি বাংলাদেশে হাজারের ওপরে বিক্রি হয়, এতে লেককের সন্তুষ্ট থাকা উচিত। আমি ওনাকে বলেছি, আমার টাকার প্রয়োজন নেই, কিন্তু একটি বই লিখতে আমার যত সময় ও পরিশ্রম লাগে তাতে শুধু হাজার খানেক পাঠক বই কিনলে/পড়লে আমার পরিশ্রম সার্থক হবে না। তার চেয়ে আমি বই লেখার সময় ও পরিশ্রমটুকু অন্য কোনো ভালো কাজে লাগাতে পারি।
আপনি বিভিন্ন মিডিয়ায় অনেক লেখালেখির পর প্রকাশনার উদ্যোগ নিয়েছেন। কিন্তু বাংলাদেশে অনেকে লেখালেখির অভিজ্ঞতা ছাড়াই শুধুমাত্র 'তথাকথিত লেখক' হওয়ার উদ্দ্যেশে খুবই নিম্নমানের কিছু গল্প-কবিতা লিখে নিজের টাকায় পিচ্ছি সাইজের একটি বই ছাপিয়ে মানুষের কাছে বিনা মূল্যে বিতরণ করে!
যাই-হোক, আপনার 'বায়স্কোপ' সংগ্রহ করে পড়বো এবং আমার ব্যক্তিগত মতামত জানাবো। ভালো থাকুন।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৪:২২

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



বাহ, অনেক দিন পর প্রিয় "জোবাইর" ভাইকে পেলাম। আপনার ফিরে দেখা বাংলাদেশের বেশ কয়েকটি পর্ব পড়েছি। তবে, রাজনৈতিক পোস্ট হওয়ায় মন্তব্য করিনি। আপনি চমৎকার ফিচার লিখেন। আপনি লেখাগুলো অনেক পরিশ্রম করে লিখেন এজন্য পাঠকের বোধ ও ভাবনার খোরাক থাকে লেখাগুলোতে।

আমি ক্লাস সিক্সে পড়ার সময় থেকে ছড়া লিখতাম। তবে মাঝের কয়েক বছর দেশের বাইরে থাকায় সাহিত্য চর্চা হয়ে উঠেনি। এছাড়া বিদেশে ব্যস্থতা ছিল খুব। আপনি শুনে অবাক হবেন; আমি প্রবন্ধ দিয়েই সিরিয়াসলি লেখালেখি শুরু করি; পরে ফিচার-গল্প-অনুবাদ ইত্যাদি। অনেকটা উল্টাপথে!! কিন্তু কখনো বই বের করবো এমন তাড়াহুড়ো ছিল না। আমি একটু নিভৃতচারী; প্রচারের আড়ালে থাকতে পছন্দ করি।

আপনার ১০ বছর আগের বই প্রকাশের উদ্যোগ এবং পরের দুঃখজনক ঘটনাগুলো শুনে কষ্ট পেলাম। লেখালেখি একটি কঠিন সাধনার কাজ। এজন্য এই সাধনার জন্য প্রয়োজন প্রচুর পড়াশুনা ও ভাবনা। এজন্য যারা সিরিয়াসলি লেখেন তাদেরকে আমি দার্শনিক বলি। একজন লেখকের মৌলিক ভাবনাগুলো যখন মলাটবন্দী হয় তখন এ ভাবনাগুলোই তাঁর দর্শন। এজন্য পাঠক ও প্রকাশকের কাছ থেকে একজন লেখকের মূল্যায়ন প্রাপ্য। তা না হল, জাত লেখকদের জন্ম হবে না।

আসলে এবার বই হবে এটা নিয়ে খুব বেশি সিরিয়াস ছিলাম না। প্রকাশনাতে পান্ডুলিপি জমা দিয়ে আর কোন যোগাযোগই করিনি!! প্রকাশক মহোদয় একদিন ফোন দিয়ে জানালেন তিনি বইটি ছাপাবেন বলে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। সবকিছু খুব দ্রুত হয়ে গেল। টাকা আসলে হয়তো চিত্ত আনন্দিত হবে; আর জগৎ সংসারও টাকা ছাড়া চলে না। লেখকদেরও দু'বেলা দুমুঠো খেতে হয়, লেখতে হলে সুস্থ থাকতে হয়। কিন্তু একজন লেখকের আনন্দ নিজের ভাবনাটুকু প্রকাশ করায়; তা ব্লগে হোক কিংবা মলাটে হোক।

আপনার জন্য শুভ কামনা রইলো; দেখা হবে বইমেলায় আপনার সাথে।

৩১| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৪:৪০

পাঠকের প্রতিক্রিয়া ! বলেছেন: " বইমেলাতে গেলে পরিচয় দিতেই হবে মনু। না হলে কোন সুন্দরী মোর ফটু তুললে ভাববো, মন্ডল বাড়ির কোন অষ্টাদশী সুন্দরী হবে।। "
cow sir ভায়া,
পরিচয় আমি দিমু না। লাইফের রিক্স আছে!:P(সামুবাসীর কেউ যদি জানে ২৮- একটা বখাটে সবাইরে তুই তুকারি করে আর ঝাড়ি দিয়ে বেড়ায়, বাড়ি একটাও মাটিতে পড়বে না।) আমি আগে ভালো হয়্যা নি। তারপর বইমেলাতে যামু।।:D


আমি গরীব মানুষ। একটা বই কি গিফ্টো পামু না, ভাইয়া??

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৫:০০

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



মনু, লাইফের রিস্ক আছে মানে!! মুই হলাম মঙ্গল গ্রহ থেকে উড়ে আসা লেখক; মোর জানেমনের ক্ষতি কে করবে হে? এতো বড় বুকের 'পাঠা' পৃথিবীতে কারো হবে না। প্রয়োজনে মঙ্গল গ্রহের একশত হুর দিয়ে সিকিউরিটির বন্দোবস্ত করিব!! তবুও আহেন।

আর বয়স ২৮ হোক কিংবা ৭৮ হোক, দুষ্টু পোলাদের কি আসে যায়!?! আর ভাল হতে হবে না; আগের মন্ডলই আমার বেশি প্রিয়। আইসেন মেলায়; চা-সিংগাড়ার ব্যবস্থা করবো।

"আমি গরীব মানুষ। একটা বই কি গিফ্টো পামু না, ভাইয়া??" এই লাইনটি পড়ে যে কারো মনে হবে তিনি একজন অষ্টাদশী রুপসী!! পাঠকের প্রতিক্রিয়ার আড়ালে কি কোন অপ্সরার বসবাস!! কি জানি, ডিজিটাল জামানা বলে কথা :-B!!

৩২| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৫৫

গিয়াস উদ্দিন লিটন বলেছেন: একজন প্রতিভাবান লিখকের লিখা মলাটবন্ধি হচ্ছে জেনে খুব ভাল লাগছে।
অভিনন্দন নিন।

অটোগ্রাফের সাথে আশা করছি ফটোগ্রাফ ও থাকবে ! =p~

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১১:৫৪

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



কিযে বলেন, প্রিয় লেখক!! আমি তো আপনাদের দেখেই লেখার উৎসাহ পাই। আপনারা ব্লগে আমাকে সহযোগিতা করেছেন বলতে লেখতে উৎসাহ পেয়েছি। আপনি মেলায় আসলে আপনার সাথে একটি পিক অবশ্যই তুলে রাখবো। আর আমি আপনাকে কি অটোগ্রাফ দেব? অটোগ্রাফ তো আপনি আমাকে দিবেন।

দেখা হবে প্রানের বই মেলায়।

৩৩| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:০৪

শাহিন বিন রফিক বলেছেন:



মন্তব্য প্রতিমন্তব্যগুলো এক কথায় সেই রকম হয়েছে।
শুভ কামনা রহিল বইটির জন্য।
বই মেলার এবার যাওয়ার খুব ইচ্ছে।

২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১১:৫৯

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আরে, শাহিন ভাই!! ভুলে গেলেন আমাকে :(!! ব্লগেও তেমন আসেন না ইদানিং। হয়তো ব্যস্থতা বেড়ে গেছে ইদানিং। বই মেলায় অবশ্যই আসবেন; দেখা না করলে কষ্ট পাব। সময় করে মেলায় আসবেন।

ভাল থাকুন, প্রিয় ভাই।

৩৪| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৩১

সুমন কর বলেছেন: অভিনন্দন !! শুভকামনা রইলো।

২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:০১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



প্রিয় কবির মন্তব্য পেয়ে খুব ভাল লাগছে। আপনার অভিনন্দন সানন্দে গ্রহণ করিলাম। আপনার কোন বই কী মেলায় আসছে? মেলায় ঘুরতে আসেন, দেখা হবে নিশ্চয়ই।

৩৫| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৫১

আর্কিওপটেরিক্স বলেছেন: অভিনন্দন :)

২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:০৫

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:
ধন্যবাদ প্রিয় "আর্কিওপটেরিক্স" ভাই। মেলায় আসবেন কিন্তু। B-) B-) B-)

৩৬| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১১:০৬

চিত্রাভ বলেছেন: সাফল্য আপনার সাথী হোক । কবিতা তো চিত্রকলা-- মনন চিত্রকলা যে রূপ পায় অক্ষরে ! ভাল থাকুন ।

২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:০৯

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



অনেক অনেক ধন্যবাদ আপনাকে। আপনার আশীর্বাদ আমার চলার পথের পাথেয়। দোয়া করবেন; আশা করি বইমেলায় আসবেন। আপনার জন্য শুভ কামনা রইলো। ভাল থাকুন সব সময়।

৩৭| ২৫ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১১:৪৬

নীলপরি বলেছেন: অনেক শুভকামনা রইলো ।

২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:১১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



দিদি, আশা করি ভালই আছে। বই মেলায় কী আপনার কোন বই আসছে? মেলায় নিশ্চয়ই আসবেন। আশীর্বাদ করবেন 'বায়স্কোপ'- এর জন্য। ভাল থাকবেন সব সময় দিদি।

৩৮| ২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:০১

মনিরা সুলতানা বলেছেন: হউ সেতো ফেসবুকে জানিয়েছিলাম, আপনার জন্য আপনার বায়স্কোপের জন্য সব সময় সব যায়গায় শুভ কামনা।

না চৌধুরী ভাই, বই মেলার সময় দেশে হয়ত যাওয়া হচ্ছে না, বাচ্চাদের স্কুল চলছে। তবে আমার শুভ কামনা থাকবে আপনাদের সাথে।

২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:১৮

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আপা, ব্লগে না আসলে এতো এতো ভাল মানুষের সাথে পরিচিত হওয়া থেকে বঞ্চিত হতাম। একজন সুশিক্ষিত মানুষ মাত্রই উন্নত রূচি ও মানসিকতার অধিকারী। আপনার এমন হৃদয় নিংড়ানো আশীর্বাদ আমার জন্য সত্যি সত্যি অনেক প্রেরণা যোগায়। দোয়া করি, একজন সফল মা; একজন সফল সহধর্মিণী আর একজন সফল মানুষ হিসেবে পৃথিবীতে সম্মানিত হোন। আপনি সে যোগ্যতা রাখেন, আপা।

জানি, সংসার ফেলে বই মেলায় আসা হবে না। আগামী কোন একটি মেলায় অবশ্যই পাব।

৩৯| ২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ৩:৫১

এস এম মামুন অর রশীদ বলেছেন: আপনার গ্রন্থ পাঠকনন্দিত হোক, প্রিয়, পরিশ্রমী লেখক। একটি গল্প বা তার অংশবিশেষ পোস্ট করতে পারেন ব্লগে, তাদের জন্য যারা দ্রুত সংগ্রহ করতে পারবেন না গ্রন্থটি। :)

২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ ভোর ৪:১৫

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



অনেক অনেক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা প্রিয় গণিত গল্পকার ও অনুবাদক। গত কয়েক মাস থেকে আপনাকে ব্লগে তেমন একটা পাই না; গণিত বিষয়ে ইদানিং লিখছেনও না। আশা করি, ভালই আছেন। বইটা নিয়ে আপনার আশীর্বাদের খুব অনুপ্রেরণা পেলাম। গল্পের অংশবিশেষ দিয়ে ফেইসবুকে পোস্ট করেছি কিছু লেখা। কিন্তু ব্লগে একটি বই নিয়ে বারবার পোস্ট লেখলে ভাল দেখাবে না।

আপনি গুগল/ফেইসবুকে আমার নাম দিয়ে সার্চ করলে ফেইসবুক প্রোফাইল পাবেন; যদি ফেইসবুক ব্যবহার করেন তবে ফেইসবুকে আমাকে সংযুক্ত করলে আমার বইয়ের আপডেটগুলো নিয়মিত পাবেন। বইমেলায় আসলে দেখা করবেন; খুশি হবো।

৪০| ২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ১০:০২

স্রাঞ্জি সে বলেছেন:
হা হা হা, ফ্লপে উল্লিখিত অনেক গল্প আগেই গ্রোগাস করে পেলেছি। জাস্ট ব্লগারদের একটু গোয়েন্দাগিরি করতে হবে। =p~ ____ তবে যে মলাটবন্দি হচ্ছে এটাই আসল কথা। সব একসাথে পড়া হবে। একজন লেখককে জানা যাবে প্রতিটি গল্পের বুননে। তো বায়স্কোপের জন্য শুভকামনা। পাঠকের কাছে পৌঁছে যাক এই কামনা। সাথে বহুল প্রচারিত হোক এই প্রত্যাশা।

২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১২:৫১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আমার প্রিয় কবিকে কমেন্টে পেয়ে দারুণ খুশি। ধন্যবাদ এতো সুন্দর একটি মন্তব্যের জন্য। গল্পগুলো মলাটবন্দী করার কোন তাড়াহুড়ো ছিল না। পান্ডুলিপি দেখে প্রকাশনীর পছন্দ হওয়ায় বইয়ের লেখক হওয়া!! আপনার কবিতার বই কবে পাচ্ছি? বইমেলায় ঢাকায় আসছেন তো? আসুন, দেখা হবে, আলাপ হবে।

শুভ কামনা রইলো, আপনার জন্য।

৪১| ২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৪:২৪

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন:

২৬ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৫:৪৩

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



গুরুর আগমন, শুভেচ্ছা স্বাগতম B-)। চমৎকার গোলাপের একগুচ্ছ টকটকে লাল ফুলের শুভেচ্ছা সাদরে গ্রহণ করিলাম। গুরু, আপনার আর আমার প্রোফাইল পিকেও কিন্তু দারুণ মিল :-B। আমার প্রোফাইলের বাল্বের ভিত্তর মোমবাতি; আর আপনারটায় কেরোসিনের ল্যাণ্ঠন!! দু'টোই একই উদ্দেশ্য নিয়ে জ্বলে।

এই আলো জ্বালিয়ে সমাজটাতে উজ্জল্য ছড়িয়ে দিতে চাই আমরা। আপনার সাথে দেখা হওয়ার খুব ইচ্ছে। বইমেলায় নিশ্চয়ই যাবেন। যেভাবেই হোক দেখা করবেন কিন্তু। আপনার সাথে অনেক কথা হবে, গুরু।

৪২| ২৭ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সকাল ১০:৫৮

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন:
দারুণ খুশীর খবর।
শুনে খুব ভালো লাগলো।
শুভ কামনা।

২৭ শে জানুয়ারি, ২০১৯ দুপুর ১২:২৫

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



অনেক অনেক ধন্যবাদ প্রিয় সাজ্জাদ ভাই। আশীর্বাদ করবেন। আপনার জন্যও শুভ কামনা রইলো। ভাল থাকুন পরিবারের সবাইকে নিয়ে।

৪৩| ২৭ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৪৪

জুন বলেছেন: অভিনন্দন রইলো কাউসার চৌধুরী ।
আপনার বইটি বিপুল পাঠক প্রিয় হোক সেই শুভকামনায় :)

২৭ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১১:৪৬

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আপা, শুনলাম এবারের বইমেলায় আপনার একটি ভ্রমণ বিষয়ক বই বের হচ্ছে। বই হলে দারুণ হবে। আমার জন্য আশীর্বাদ করবেন; প্রথম বই জানি না পাঠকরা কিভাবে নেবে!! নতুন এক অভিজ্ঞতা। দেখা যাক কি হয়।।

৪৪| ২৮ শে জানুয়ারি, ২০১৯ বিকাল ৫:৫০

তারেক_মাহমুদ বলেছেন: আশাকরি আবারও দেখা হচ্ছে বই মেলায়, অনেক শুভ কামনা।

২৯ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:১৫

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



তারেক ভাই; অবশ্যই দেখা হবে, কথা হবে বইমেলায়। খুব মিস করি আপনাকে।

৪৫| ২৯ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৩৭

প্রামানিক বলেছেন: অভিনন্দন জানাই, প্রকাশিত বইটি পাঠক প্রিয়তা লাভ করুক এই কামনা করি।

২৯ শে জানুয়ারি, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৩১

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



অনেক অনেক ধন্যবাদ প্রিয় ছড়াকর/কবি। আমি খুব করে চাচ্ছিলাম বইমেলায় আপনার একটি বই আসুক। পরিচিত অনেকের কাছে আপনার ছড়ার প্রশংসা করেছি। আপনি হলেন 'জাত ছড়াকর'। আশা করি, আগামী বইমেলায় নতুন বই পাব। বইমেলায় আসবেন, কথা হবে।

৪৬| ৩১ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:১৭

করুণাধারা বলেছেন: ব্লগে দেখেছি, আপনার এক একটি লেখা দীর্ঘ সময় পরিশ্রমে করে লিখেন, এটাই আপনার লেখার ধরন। নানা খুঁটিনাটি আপনার গল্পে উল্লেখ করা থাকে, তাই গল্প হয় সাবলীল। আশা করি বায়োস্কোপের গল্পগুলোও তেমন হবে। লেখক হিসেবে আপনার সফলতা কামনা করছি।

৩১ শে জানুয়ারি, ২০১৯ রাত ১২:৫৪

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



আপা কৃতজ্ঞতা রইলো। আশা করি, ভাল আছেন। আপনি ঠিকই বলেছেন, আমার লেখাগুলো একটু দীর্ঘ হয়। কারণ, আমি যে বিষয়টি নিয়ে লিখলাম তা নিয়ে তো আবার লেখা হবে না, তাই এটি নিয়ে আগে নিজে পড়াশুনা করি। অনেকবার ভেবে অনেক সময় নিয়ে লিখি। এজন্য ডিটেলে বিষয়গুলোর গভীরে গিয়ে লেখতে লম্বা হয়ে যায়।

গল্পের বেলায়ও ঠিক তাই। আর আমি মনে করি, গল্পের ভেতরের গল্পগুলো যত গোছানো হবে; তার অলঙ্করণ ততো সমৃদ্ধ হবে। পাঠকরা যাতে গল্পের মাঝে নিজেকে কিংবা চারিপাশে ঘটে যাওয়া অন্য কোন চরিত্রের উপস্থিতি টের পান সে চেষ্টা করি প্রতিনিয়ত। গল্প তো মানুষের জীবন ঘনিষ্ঠ একটি ঘটনা। এখানে পাঠকের ভাবনাই হলো গল্পের ভাষা।

আপা, আশীর্বাদ করবেন। আর মেলায় আসলে অবশ্যই দেখা করবেন। শুভ কামনা রইলো আপনার জন্য।

৪৭| ১৫ ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ সকাল ১১:১৫

আমি মুক্তা বলেছেন: বায়োস্কোপ কেউ কি দেখেছেন? যদি না দেখে থাকেন তো এই বইটি সংগ্রহ করতে পারেন, নিঃসন্দেহে আপনি বায়োস্কোপ দেখার আনন্দের চেয়ে বেশি কিছু পাবেন এই গ্যারান্টি আমি দিচ্ছি, (বিফলে মূল্য ফেরত দিতে হলে তা দিবেন লেখক)!

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.