নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

লেখালেখি একটা নেশার মত। বিভিন্ন ঘাট পেরিয়ে কর্পোরেট জগতে থিতু হওয়ার পরও তাই লিখে যাই যা মনে আসে তাই। পদ্মার ওপাড়ের মানুষ হওয়ায় জন্মগতভাবেই স্মৃতিকাতর। এ আমার দুর্বলতা নয়, অহংকার

পদ্ম পুকুর

একজন শভেনিস্ট ও স্মৃতিকাতর মানুষ

পদ্ম পুকুর › বিস্তারিত পোস্টঃ

বাড়িভাড়ার ছড়া: ১৯৯৩ এবং ২০২০

১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ১২:০৮



বাড়িভাড়া ১৯৯৩
বাড়িভাড়া দেওয়া হবে, শর্ত হলো এই
এ বাড়ি তারাই পাবে, যাদের কোনো ছেলেমেয়ে নেই।

নোটিশখানা টাঙিয়ে দিলাম আমার নিজের হাতে
গলির মাথার ডানদিকের ওই ছোট্ট দেয়ালটাতে,
ছোট্ট দেয়ালটাতে।

একটা ছোট্ট ছেলে সেদিন নোটিশখানা পড়ে
বাড়ি ভাড়া নেবে বলে আসলো আমার ঘরে
বললো এসে বাড়িভাড়া নিতে আমি চাই
সব মিলিয়ে পড়বে কত, বল দেখি ভাই;

এসব কথা শুনে দুচোখ উঠলো চড়কগাছে
জিজ্ঞাসিনু তোমার সাথে কে কে শুনি আছে?
বললো হেসে আমার কোনো ছেলেমেয়ে নাই,
নাইরে নাই...

সে বললো হেসে আমার কোনো ছেলেমেয়ে নাই,
সঙ্গে আছে মা ও বাবা, আর আছে এক ভাই...।


বাড়িভাড়া ২০২০
বাড়িভাড়া নেব আমি, তবে কথা হলো এই
যোগাযোগ করবে তারাই শুধু, যাদের ‘ঘাড়ত্যাড়ামি’ নেই।

ফেইসবুকে পোস্টটা দিতেই পড়লো লাইক শত
কমেন্টেও বাড়ির ছবি, রঙবেরঙের কত,
রঙবেরঙের কত।

এমন একদিন দুপুরবেলা শুয়েছিলাম যখন
পায়ের উপর পা-টা রেখে দেখতেছিলাম স্বপন
হঠাৎ আমার পাশে রাখা ফোনটা বেজে উঠলো
অপরপাশে বাড়িওয়ালা একজন কেঁদে ফেললো;

বললো আমার বাড়িটা কি ভাড়া নেবেন ভাই?
অ্যাডভান্স কোনো লাগবেনা। ভাড়া তিন মাস নাই,
গাঁটের টাকা শেষ হয়েছে, প্লিজ, ভাড়া নেন না ভাই,
প্লিজ, ভাড়া নেন না ভাই...

বলি আমি, এই কষ্ট কেনো আগে বোঝেন নাই
এখন একটু বুঝে দেখেন, সবাইতো ভাই-ভাই।
সবাইতো ভাই-ভাই।

আসলে বাড়িওয়ালা-ভাড়াটিয়া, তফাৎ কিছু নেই,
পরের বাসায় আমরা থাকি, টাকাটা ঠিক দেই
মনটা যদি বড় করেন, যদি আপন ভাবেন
দু’জন মিলে থাকবো ভালো, কষ্টে পাশে পাবেন।



নোট: খুব সম্ভবত তিরানব্বুয়েই নতুনকুঁড়িতে প্রথম ছড়াগানটা শুনেছিলাম আর দ্বিতীয়টি বর্তমান সময়ের প্রেক্ষাপটে আমি প্যারোডি করেছি। ঢাকার কিছু অসভ্য ধরনের বাড়িওয়ালা ভাড়াটেদেরকে মানুষ হিসেবে গণ্য করেননি এতদিন। কিন্তু করোনার প্রভাবে সে পরিস্থিতি পাল্টে যাচ্ছে বলে গণমাধ্যমে খবর হচ্ছে। এভাবে আরও কিছুমাস চললে বাড়িওয়ালাদের অবস্থা নিচের প্যারোডির মতই হবে বলে মনে হয়।

পবিত্র কোরআনের সুরা আল ইমরানের ২৬ নম্বর আয়াতে বলা হয়েছে- ...‘বলুন হে আল্লাহ, তুমি যাকে ইচ্ছা সম্মান দান কর, যাকে ইচ্ছা অপমান কর। তোমারই হাতে রয়েছে যাবতীয় কল্যাণ....। এই কথাটা সবার মনে রাখা উচিৎ।

ছবিসূত্র:

মন্তব্য ৩৫ টি রেটিং +৯/-০

মন্তব্য (৩৫) মন্তব্য লিখুন

১| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ১২:৩১

নূর মোহাম্মদ নূরু বলেছেন:
কাগজেতে যতই পড়ি ভাড়াটিয়া নাই
বাস্তবেতে কথার সাথে মিল খুঁজে না পাই।
মাস গেলে ভাড়া দিতে নাস্তানাবুদ হই
বাড়িআলা তাগাদা দেয় বাসা ভাড়া কই?

১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ১২:৩৬

পদ্ম পুকুর বলেছেন: ওয়াও, ওয়াও!!

২| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ১:১৭

মোঃ নুরুজ্জামান (জামান) বলেছেন: ২০২০ হবার কথা!!! ভাল হয়েছে।

১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ১:৩৫

পদ্ম পুকুর বলেছেন: :-P

৩| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ১:৩১

নেওয়াজ আলি বলেছেন: আমি চার মাসের ভিতর দুই ভাড়া দিয়েছি

১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ১:৩৫

পদ্ম পুকুর বলেছেন: তবে অনেক বাড়িওয়ালাই নিজ উদ্যোগে ভাড়া কমিয়ে দিচ্ছেন। আমার বন্ধু শহিদ, মোতালেব, ওদের ভাড়া কমে গেছে।

৪| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ২:২০

দেশ প্রেমিক বাঙালী বলেছেন: বাড়ীওয়ালদের গনেশ উল্টে গেছে !

১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ২:২৭

পদ্ম পুকুর বলেছেন: =p~ =p~

৫| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ২:৩৩

সোনাবীজ; অথবা ধুলোবালিছাই বলেছেন: রম্য হলেও বাস্তবতা ফুটে উঠেছে।

যারা অনেক বেশি ধনীলোক, তারা বাড়িভাড়া না পেলেও ক্ষতি নাই, তারা হয়ত এর ধারধারিও করবে না। কিন্তু, কিছু ছা-পোষা বাড়িওয়ালা আছে, যারা সারাজীবন সঞ্চয় করে বাড়ি করেছেন আয়-রোজগারের একটা মাধ্যম হিসাবে, তাদের সমস্যা হবে। ভাড়াটিয়াদের চাইতে তাদের অবস্থা কম শোচনীয় না, কারণ, তারা মাস শেষে বেতনের মতো মাস শেষে বাড়ি ভাড়া তুলে জীবিকা নির্বাহ করেন।

কাউঠা বাড়িওয়ালারা যদি এ থেকে কিছু শিক্ষা পান।

১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ২:৫৬

পদ্ম পুকুর বলেছেন: ঢাকা শহরের কিছু বাড়িওয়ালা আছে, যেকোনোভাবেই হোক এখানে তারা বাড়ি/ফ্ল্যাট করতে পেরেছে দেখে ভাড়াটিয়াদেরকে মনুষ্যশ্রেণীতে ফেলতে চায় না। এ রকম জমিদারদের জন্য ভালো একটা শিক্ষা হোক, কামনা করি।

এর বাইরে অসংখ্য ভালো বাড়িওয়ালা আছেন, তারা নিশ্চয় তাদের সদয়তার কারণে ভাড়াটিয়াদের সহানুভুতি পাচ্ছেন এখন। ব্যক্তিগতভাবে আমি আমার বাড়িওয়ালাদেরকে খুব ভালো মানুষ হিসেবেই পেয়েছি।

৬| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ দুপুর ২:৫৯

মোঃ মাইদুল সরকার বলেছেন:
ভিতরে ২য় কবিতায় ২০২০ হবে।

সময় কারো চিরকাল এক জায়না। এই কথা বাড়িওয়ালাদের মাথায় রাখা দরকার।

১৩ ই জুলাই, ২০২০ বিকাল ৩:০৫

পদ্ম পুকুর বলেছেন: ধন্যবাদ মাইদুল ভাই। ঠিক করে দিয়েছি।
আর শুধু বাড়িওয়ালা কেন, সবাইকেই মাথায় রাখা দরকার যে, সময় চিরকাল এক যায় না।

৭| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ বিকাল ৩:২০

রাজীব নুর বলেছেন: ১৯৯৩ সালে এক টন রডের দাম ছিলো- ১৭ হাজার টাকা। এখন এক টন রডের দাম ৯০ হাজার টাকা।
১৯৯৩ সালে এক ট্রাক বালুর দাম ছিলো- ১৩ শ' টাকা। এখন আট/দশ হাজার টাকা।
১৯৯৩ সালে এক বস্তা সিমেন্টের দাম ছিলো ১শ' টাকা। এখন এক বস্তা সিমেন্ট ৫ শ' টাকা।

১৩ ই জুলাই, ২০২০ বিকাল ৩:২২

পদ্ম পুকুর বলেছেন: ১৯৯৩ সালে শাহবাগ এলাকায় ১০০০-১২০০ স্কয়ার ফিটের একটা অ্যাপার্টমেন্টের ভাড়া ছিলো ৬ থেকে ৭ হাজার টাকা এখন ৩৫ হাজার টাকা।

৮| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ বিকাল ৫:১০

আকিব ইজাজ বলেছেন: কবিতায় বাস্তবতা চরম ভাবে উঠে এসেছে। ভাড়াটেদের তুলনায় বাড়িওয়ালারাই এখন বিপদের মুখোমুখি হয়ে আছে। তার উপর যারা ব্যাংঙ্ক লোন নিয়ে বাড়ি করেছেন তারা রয়েছে চরম বিপদে। বাড়ি ভাড়া তুলতে না পারলেও ব্যাংঙ্কের কিস্তি ঠিকই দিতে হচ্ছে, কিংবা কিস্তি দেওয়ার জন্যে ব্যাংঙ্ক তাদের উপর চাপ তৈরি করছে। এতে ক'দিন পর এভাবে হন্যে হয়েই বাড়িওয়ালাদের কে ভাড়াটিয়া খুঁজে বের করতে হবে।

১৩ ই জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:৪৪

পদ্ম পুকুর বলেছেন: শিল্প সাহিত্যতো বাস্তবতারই প্রতিচ্ছবি! আসলে আর্থসামাজিক বিভিন্ন পরিপ্রেক্ষিত ঢাকার বাড়িওয়ালাদেরকে এরকম চরিত্রের করে তুলেছিলো। এই ডগমার স্বীকার হয়ে আমরাও চেয়েছি কোনরকমে বাড়িওয়ালা হয়ে যেতে; যার সুযোগ নিয়েছে ব্যাংক ও লিজিং কোম্পানিগুলো। এখন হয়তো সে দায় শোধ করতে হবে সবাইকে।

মন্তব্যর জন্য ধন্যবাদ স্যার।

৯| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ বিকাল ৫:২০

কাজী আবু ইউসুফ (রিফাত) বলেছেন: বাড়ীওয়ালা-রা পরোক্ষভাবে ভাড়াটিয়াদের তাদের অধীনস্থ কর্মচারী ভাবে (আচরণের দিক থেকে) বড়ই যন্ত্রণায় আছি। আর উপর বাচ্চারা একটু লাফালাফি করলে এসে অভিযোগ জানায় এত লাফালাফি কিসের বাড়ী ভেঙে ফেলবেন না কি??

১৩ ই জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:৪৫

পদ্ম পুকুর বলেছেন: আমার এক রিলেটিভের বাড়িওয়ালা বাসায় বড় মাছ কিনতে দিতো না, তাতে নাকি মাছ কাটতে গিয়ে মাছের ময়লা পড়ে ফ্লোরের মেঝে নষ্ট হবে....!!!

১০| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ রাত ৮:২৮

সাইন বোর্ড বলেছেন: বর্তমানে সবাই কমবেশি পরিস্থিতির স্বীকার, বাড়িওয়ালারাও এর বাইরে নয় ।

১৩ ই জুলাই, ২০২০ রাত ৮:৩৯

পদ্ম পুকুর বলেছেন: ঠিকই বলেছেন, কিন্তু বাড়িওয়ালারা এক সময় যে হুজ্জোতি করেছে, অনেকে তাদের দুঃসময়ে স্বস্তি পাচ্ছে।

১১| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ রাত ৮:৪৪

অর্ণব তনয় বলেছেন: কাউকে শাস্তি দেওয়ার ক্ষেত্রে প্রকৃতি সময় নেয় । ঢাকা শহরের ৫০ মানুষ ভাগ চলে গেলে ভালই হবে ।

১৩ ই জুলাই, ২০২০ রাত ৯:০৪

পদ্ম পুকুর বলেছেন: হু, ন্যাচারাল রিভেঞ্জ বলে একটা কথা আছে। ধন্যবাদ মন্তব্যের জন্য।

১২| ১৩ ই জুলাই, ২০২০ রাত ১০:২৮

গিয়াস উদ্দিন লিটন বলেছেন: আমি আমার ভাড়াটিয়াদের এক মাসের ভাড়া মওকুফ করে দিয়েছি।
ভাড়াটিয়াদের আমি আমার মেহমান বলেই মনে করি।
প্রথমটা কৌতুক হিসেবে শুনেছিলাম। ছড়া করায় বেশ মজা পেলাম।

১৩ ই জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৩৭

পদ্ম পুকুর বলেছেন: এই পর্যন্ত তিনটা বাসা বদলেছি, সবখানেই আমার বাড়িওয়ালাদেরকে খুবই আন্তরিক পেয়েছি।

প্রথম ছড়াটা আমার লেখা না লিটন ভাই, ওইটা একটা ছড়াগান হিসেবে নতুনকুড়িতে শুনেছিলাম, দ্বিতীয়টা প্যারোডি হিসেবে আমি লিখেছি। দুর্বল লেখা অবশ্য। মন্তব্যর জন্য ধন্যবাদ।

১৩| ১৪ ই জুলাই, ২০২০ সকাল ১১:৪৪

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: হুম অনেক বিড়ম্বনা। আমরাও ভাড়া থাকি :(

সুন্দর পোস্ট

১৪| ১৬ ই জুলাই, ২০২০ রাত ৯:১৫

নান্দনিক নন্দিনী বলেছেন: যাদেরকে এই দুর্দিনেও খেয়ে না খেয়ে ফ্ল্যাটের কিস্তি দিতে হচ্ছে তাদের জন্য কিছু লেখাটেখা হবে না?

১৫| ২৫ শে জুলাই, ২০২০ রাত ৮:৩৯

জুন বলেছেন: বাড়িওয়ালা ভাড়াটিয়ার এই দ্বন্দ্ব মনে হয় যুগ যুগ ধরে চলে আসছে পদ্মপুকুর। সুন্দর লিখেছেন কবিতায়।
ভালোলাগা রইলো।
+

১৬| ২৭ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৫৭

মনিরা সুলতানা বলেছেন: হুম হলে মন্দ হয় না এমন।
মজার লেখা বাস্তবতা নিয়ে।

১৭| ২৮ শে জুলাই, ২০২০ সকাল ১১:৪৯

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: নতুন লেখা নাই কেনো পদ্ম জি

৩০ শে জুলাই, ২০২০ বিকাল ৩:০৫

পদ্ম পুকুর বলেছেন: অত্যন্ত কৃতজ্ঞতা বোধ করছি আপনার মন্তব্যের জন্য। এর আগেও আপনি একবার আমাকে নতুন লেখার জন্য খোঁজ করেছিলেন।

ব্যক্তিগতভাবে একটু অস্থির সময় যাচ্ছে। প্রতিদিন লগডইন থাকি, কিন্তু নতুন লেখা হয় না, এমনকি অন্যদের লেখাও পড়তে পারছি না। আপনাদের শুভকামনায় নিশ্চয় দ্রুতই লেখা নিয়ে ফিরে আসবো।

অসংখ্য ধন্যবাদ আপনাকে।

১৮| ০৩ রা আগস্ট, ২০২০ সকাল ১০:৪১

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: ঈদ মুবারক ভাইয়া জি

ইনশাআল্লাহ ব্যস্ততা কেটে যাবে।
ভালো থাকুন

১৯| ০৮ ই আগস্ট, ২০২০ রাত ৮:০১

কবিতা পড়ার প্রহর বলেছেন: বর্তমানে বাড়িওয়ালা ভাড়াটিয়া পার্থক্য নাই নাই। তারা দুজনই ভাই ভাই।

২০| ১০ ই আগস্ট, ২০২০ রাত ২:৩৭

ঢুকিচেপা বলেছেন: বাড়িভাড়া দুই ছড়াই দারুণ মজার হয়েছে।

আপনাকে বেশ কদিন ধরে দেখছি না। ঠিক আছেন তো ?

আপনার ১ম পোস্টে উপস্থিতি জানিয়ে এসেছি (নোটিফিকেশন পাবেন না তাই বললাম)।

১০ ই আগস্ট, ২০২০ সকাল ১০:২০

পদ্ম পুকুর বলেছেন: আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ স্যার আমাকে মনে করার জন্য। ঈদে গ্রামে যাওয়া-আসার হ্যাপা, অফিসে নিজের ডিভিশনে দুজনের কোভিড পজেটিভ হওয়ায় কাজের চাপ বেড়ে যাওয়া, সর্বোপরি ব্যক্তিগত কিছু অস্থিরতার কারণে ব্লগে লগডইন থাকলেও লিখতে পারছি না। এমনকি, অন্যের লেখা পড়ার মত মানসিক স্থিরতাও পাচ্ছিনা অনেক ক্ষেত্রে।

আমার প্রথম পোস্ট মনে করে যে পোস্টে মন্তব্য করে এসেছেন, আদতে সেটা প্রথম নয়, কিছু একটা মিসটেক হয়েছে। এই নিকে আমার প্রথম পোস্ট ২০০৮ সালের ২ জানুয়ারিতে। আর এই ব্লগে আমার প্রথম নিকটা জন্ম নিয়েছিলো ২০০৬ সালের মাঝামাঝি। ওই নিকটা এখন আমি আর বিলং করি না।

তারপরও অসংখ্য ধন্যবাদ আপনি আমার পুরোনো পোস্টে মন্তব্য করে এসেছেন। এর আগে খায়রুল আহসান স্যারও আমার প্রথম পোস্টে ফিরে গিয়ে মন্তব্য করে এসেছিলেন। বিষয়টা আমার কাছে ভালো লেগেছিলো। আমি আপনাদের দু'জনকেই কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি।

২১| ১১ ই আগস্ট, ২০২০ বিকাল ৪:৪২

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন:




ভাইরে, বাসায় যদি ভাড়াটিয়া না থাকেন তাহলে কি “বাসার ইট খুলে খুলে খাবো? ইট খাওয়ার বস্তু” তবে কথা ঠিক এই দেশে ভালো বাড়িওয়ালার চেয়ে খারাপ বাড়িওয়ালা সম্ভবত বেশী।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.