নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

নিজের পোস্টের উত্তর দিতে দেরী হয় সেজন্য সরি।

কাজী ফাতেমা ছবি

সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। লেখকের অনুমতি ব্যতীত যে কোন কবিতা, গল্প, ছড়া, রম্য ইত্যাদি সাহিত্যকর্ম যে কোন গনমাধ্যমে যেমনঃ-ম্যাগাজিন, ফেসবুক, ব্যক্তিগত ব্লগ, সামাজিক মাধ্যম, পত্রিকা ও ওয়েবসাইটে প্রকাশ নিষিদ্ধ। বাংলাদেশ কপিরাইট আইন, ২০০০ লংঘন একটি শাস্তিযোগ্য ও দণ্ডনীয় অপরাধ। কপি পেস্ট-ভ্রমরের ডানা”

কাজী ফাতেমা ছবি › বিস্তারিত পোস্টঃ

=বৃষ্টি পড়ে ঝুমুরঝামুর=

০১ লা জুন, ২০২১ সকাল ১১:২৬



©কাজী ফাতেমা ছবি
=বৃষ্টি পড়ে ঝুমুরঝামুর=
ঝুমঝুমাঝুম ঝরে বৃষ্টি
পড়ে বৃষ্টি তালে তালে,
খোলা জানলা, বৃষ্টি এসে
ছুঁয়ে দিলো নরম গালে!

বিজলি চমকায় আকাশ ডাকে
ঘরের দুয়ার যায় না খোলা,
বৃষ্টি ধরি হাত বাড়িয়ে,
বৃষ্টির সুখে আত্মভোলা!

সকাল আমার কী রূপসী!
চারিদিকে পাতার গুঞ্জন,
বৃষ্টির জলে ভিজতে আহা!
মন যে আমার হলো খঞ্জন!

থামিস না আজ বৃষ্টি ওরে
রিনিঝিনি ঝরে যাবি,
কেউ না থাকুক বৃষ্টি ছুঁয়ে
বৃষ্টি আমায় কাছে পাবি!

পাতায় পাতায় বাজে শুনি
ঝুমঝুমাঝুম বৃষ্টির নুপুর,
সকাল গড়াক থাকিস বৃষ্টি
ধেয়ে আসুক উদাস দুপুর!

রাস্তাঘাটে জল জমে যাক
ভিজাবো পা সুখ শিহরণ,
উষ্ণতা যা দেহজুড়ে
বৃষ্টি করুক এসে হরণ!

কী যে ভালো লাগে আমার,
বৃষ্টি মনে দিলো দোলা,
সুখ মুগ্ধতায় যাক ভরে যাক
মনে দুয়ার রাখি খোলা!
=============



০২।
=এসো সান বাঁধানো ঘাটে, পা ডুবিয়ে বসি=

শুনতে কী পাও কান পেতে পাখিদের কুচকাওয়াজ
চারিদিকে মধু গুঞ্জরণ, বন্ধ চোখে শুনো মিহি আওয়াজ;
এখানে মন রাখলেই, মন চুয়ে নামবে সুখের লহর,
বন্ধু শুধু তোমার আমার হোক এ স্নিগ্ধ প্রহর।

চলো, জলে ভাসিয়ে দেই মনের দ্বিধা,
যত অসুখী ক্ষণ আমাদের, জানাই আলবিদা;
মনে ঝুলে আছে যত বিষাদ যত দ্বন্দ্ব,
এসো জলে পা ডুবিয়ে মনে তুলি সুখ ছন্দ।

তোমার জন্য তুলে আনা কিছু শুভ্রতা দিলাম ভাসিয়ে জলে,
চোখ রাখো, বুক ডহরে মুগ্ধতারা পড়ুক গলে গলে,
তুমি উচ্ছল হও, হেসে দাও খিলখিলিয়ে,
চলো দুজনে মিলে প্রকৃতির বুকে প্রেম যাই বিলিয়ে!

এখানে সান বাঁধানো ঘাট,
চুকিয়ে ব্যস্ততা আর কর্মপাঠ;
এসো বসি, হাতে রেখে হাত,
মুগ্ধতার সময় চাইনা করতে বেহাত।

জলের ঢেউয়ে ভাসুক তোমার আমার সুখ ছবি,
উষ্ণতা ছড়াক দুপুরে রবি
তাতে কী, জল ছুঁয়ে যে হাওয়া বইছে প্রকৃতিজুড়ে,
দিয়ো না বাঁধা সুখ উঠুক আমাদের বক্ষ ফুঁড়ে।

কত ব্যস্ততার পাহাড় ঠেলে আজ এখানে নিয়েছি খুঁজে অবসর,
দুজনায় নিরিবিলি মন ঘরে সাজাই চলো সুখের বাসর,
না সম্মতিতেই তো কাটালে অজস্র প্রহর;
তোমার গুয়ার্তুমি আর বিষণ্ণতায় ভরা আমার মন শহর।

এসো, বসো পাশ ঘেঁষে, বৃষ্টি আসবে খানিক বাদেই, আকাশ অন্ধকার
জলে দাও ভাসিয়ে তুমি লুকানো সব ঈর্ষা অহংকার;
জলে থই থই ফুল পাপড়িদের নাচন, মন ছেয়ে যাক তোমার সুখ উচ্ছ্বাসে
এবেলা মন টলমলে প্রেম জলে টুইটুম্বুর, ভালোবাসা পেতে চাইলে
বসো এসে পাশে।

(গ্রামের বাড়ীর পুকুর)

অট: ঢাকা ডুবে গেছে কিছুক্ষণের বৃষ্টিতে। মতিঝিলের যুগান্তর গলি। সব জায়গাতেই পানি । কী যে কষ্ট হইছে আজ অফিসে আসতে। যদি নোংরা পানি না থাকতো তবে ভালোই লাগতো। মানুষের জ্যাম গাড়ীর জ্যাম, তিন ধরণের ঠাঁই ছিলো অফিসে আসার সময় । অফিসে পৌঁছে দেখি ব্যাংকের গেইট থেকে শুরু করে ব্যাংকের ভিতরেও পানি। ব্যাংকের পানি পরিস্কার থাকাতে মজাই লাগছে পা ভিজিয়ে হেঁটে আসতে।

মন্তব্য ৫৫ টি রেটিং +৭/-০

মন্তব্য (৫৫) মন্তব্য লিখুন

১| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:১৩

আলমগীর সরকার লিটন বলেছেন: অসাধারণ অসাধারণ মুগ্ধতা রেখে গেলাম ছবি আপু

০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:১৩

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: জাজাকাল্লাহ খাইরান ভাইয়া। ভালো থাকুন

২| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:২১

জটিল ভাই বলেছেন:
এমন বৃষ্টির কবিতা পড়তে পাশে যে একজন বৃষ্টি দরকার......... =p~
চমৎকার :)

০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:৩১

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: হাহাহাহা আছে তো অবশ্যই তারে ডাক দেন জুরে । আসুক বৃষ্টি ছুঁতে

থ্যাংকিউ জটিল ভাইয়া

৩| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:২৫

জুন বলেছেন: কাজী ফাতেমা ছবি বৃষ্টি নিয়ে লেখা আপনার কবিতা খুব সুন্দর,নরম এক পেলব অনুভূতি নিয়ে আসলো মনের মাঝে।
ভালো লাগা রইলো।
কিছু দিন আগে যখন তীব্র তাপদাহে দেশ জ্বলেপুড়ে খাক হচ্ছিল তখন মানুষ বৃষ্টির জন্য কত কাকুতি মিনতি। কিন্ত গতকাল থেকে যখন রহমতের বৃষ্টি শুরু হলো তখন মানুষের কথা পালটে গেল। বৃষ্টিতে দেশ জলমগ্ন, রাস্তা ঘাটে বিড়ম্বনা ইত্যকার কথা। আসলে আমরা যে কি চাই তা মনে হয় ----

০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:৩৫

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: জাজাকিল্লাহ খাইরান আপি। অনুপ্রেরণামূলক মন্তব্যের জন্য কৃতজ্ঞতা।

আসলেই বৃষ্টি আসছে কত যে ভালো লাগছে। হোক বিড়ম্বনা তাতে তী। মানুষ এখন আবার হইচই করে বৃষ্টি কেনো এলো।

আসল কথা হচ্ছে ঢাকার পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা কোনোভাবে করতে পারতেছে না। কীভাবে করবে। বজ্জাত মানুষের লাইজ্ঞা কোনো পরিচ্ছন্নতার কার্যক্রম সুন্দর রাখা যায় না। ম্যানহোল গুলা পলিথিন সিগারেটের প্যাকেট খালি বোতলে ভরে গেছে। অসভ্য মানুষের দেশে কিছুই সুন্দর থাকে না।

ভালো থাকুন আপি

৪| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:২৮

মরুভূমির জলদস্যু বলেছেন: বৃষ্টি আমার খুব পছন্দের। আপনার প্রথম কবিতাটি পড়লাম। কবিতা আমি খুব ভালো বুঝি না তবুও মনে হলো পুরো কবিতার অন্য সকল শব্দের সাথে ছুঁইলো শব্দটি যায় না।

বি.দ. উপরের মন্তব্যটি মুছে দিবেন।

০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:৩০

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ মরু ভাইয়া। ছুঁ'লো লেখা উচিত ছিলো। ছুঁলো লিখবো?

ভালো থাকুন ফি আমানিল্লাহ

৫| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:৫৪

জটিল ভাই বলেছেন:
না আভী, সেই সৌভাগ্য এই জীবনে হয়নি। ভাবছিলাম আপনার ছোট বইনদের থেকে একটা ব্যবস্থা করে দেবেন। কিন্তু সেদিন আপনার বইনদের যেই অবস্থা দেখলাম তাতে সখ মিটে গেছে...... =p~

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:০৯

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: হা হাহাহাহা আচ্ছা আমি দেখতাছি বিষয়টা। কাজীগিরি করমু, বিলাইর দল থাইকা একটা পছন্দ কইরা জানামু নে।

৬| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:৫৭

স্প্যানকড বলেছেন: মন হারাবার আজি বেলা
পথ ভুলিবার খেলা
মন চায়, মন চায়
হৃদয় জড়াতে কার চিরঋণে
আজি ঝরো ঝরো মুখর বাদরদিনে।

--- রবিন্দ্রনাথ ঠাকুর ।

খুব ভালো হইছে আপু। ভালো থাকবেন এবং সুস্থ থাকুন।

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:০৯

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ ভালো থাকুন ভাইয়া

ফি আমানিল্লাহ

৭| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১:০১

জুন বলেছেন: বৃষ্টি ছোয়া নরম গালে এটা কেমন হয় ছবি? বা ছুয়ে দিল নরম গালে?

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:২২

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: ঠিক করে নিয়েছি আপি
অসংখ্য ধন্যবাদ
ভালো থাকুন
ভালোবাসা নিন

৮| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১:০১

চাঁদগাজী বলেছেন:



ঢাকার কবিরা কি বৃষ্টিকে ভালোবাসে?

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:৩০

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: অবশ্যই ভালোবাসে ভাইয়া। আমি বাসি, আমার দুই ছেলেও বৃষ্টি ভালোবাসে। তবে কষ্ট হয় যখন অফিস আসা যাওয়া করি। পরিষ্কার পানি হলে মন খারাপ হতো না। কিন্তু ঢাকার পানি কেমন তাতো জানেনই :( ছি কী কালো ময়লা

৯| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১:০৯

মাকার মাহিতা বলেছেন: চমৎকার বৃষ্টি ছড়া

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:৩৬

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ মাহিতা
ভালো থাকুন

১০| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১:৩৩

সিগনেচার নসিব বলেছেন: খুব সুন্দর দুটো কবিতা পড়লাম।



অনেকেই দেখছি বৃষ্টি বিলাসে মেতে উঠেছেন।
তবে আমাদের মেগাসিটি’র বৃষ্টি খুবই প্যারা দেয়।

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:৩৯

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: হুম বৃষ্টি বাসায় থাকলে মজা। বাইরে বেরোলে বেমজা। তাও যদি পানি না জমতো রাস্তায়।

জাজাকাল্লাহ খাইরান ভালো থাকুন অনেক অনেক
ফি আমানিল্লাহ।

১১| ০১ লা জুন, ২০২১ দুপুর ১:৩৬

কল্পদ্রুম বলেছেন: দুটোই সুন্দর। নীচের কবিতা বেশি ভালো লেগেছে। অফিসে পানির ভিতরে হাঁটাহাঁটি করতে মজা লাগারই কথা। আসলেই আপনার কবির মন।

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:৫৪

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ।। অনুপ্রেরণামূলক মন্তব্যের জন্য কৃতজ্ঞতা।

ভালো থাকুন ফি আমানিল্লাহ।

১২| ০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:২২

রাজীব নুর বলেছেন: ভোর থেকেই আজ ঢাকায় খুব বৃষ্টি হয়েছে। রাস্তায় পানি জমে গেছে। তখনই কি এই কবিতার জন্ম হয়েছে?
কবিতা সুন্দর হয়েছে।

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৪:০২

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: হুম তখনই লিখছি। আর নিচেরটা পোস্ট দেয়ার সময় লিখছি।

ধন্যবাদ ভালো থাকুন

১৩| ০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:২৬

জটিল ভাই বলেছেন:
আফা কাম ভাবী,
কাজী ফাতেমা ছবি!

আশা ছিলো তার বইন,
আই মিন আমার বেআইন।

হইবে তার সনে একখানা হিল্লি,
কিন্তু হায়! এ আমি কি দেখলাম! ক্যান দেখলাম!
তাহার বইনতো ছাগি নয়তো বিল্লি
=p~ =p~

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৪:০৭

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: বইন বেআইনের কোটা খালি নাই, সবগুলার বিয়া হই গেছে

আন্নের জন্য বিল্লিই আছে। দেরী করছুইন ক্যারে।

১৪| ০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:৪০

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: সুন্দর।+

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৪:০৫

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ ভাইয়া
ভালো থাকুন
ফি আমানিল্লাহ

১৫| ০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৪:০০

নেওয়াজ আলি বলেছেন: আজ সকালে বৃষ্টির কারণে একটা দরকারী কাজে যেতে পারি নাই । তখন খুব রাগ লেগেছে।কবিতা চমৎকার

০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৪:০৩

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: আল্লাহর রহমতের প্রতি রাগ হতে নেই। আমরা ঢাকাবাসী বৃষ্টি আসলে মুসিবতে পড়ি। রাস্তাঘাটে বন্যা। তাও বৃষ্টি ভালোবাসি। আল্লাহ অনেক আরাম দিয়েছেন আমাদের।

জাজাকাল্লাহ খাইরান
অনেক ভালো থাকুন ভাইয়া

১৬| ০১ লা জুন, ২০২১ বিকাল ৪:৫০

শেরজা তপন বলেছেন: বৃষ্টির তালের সাথে কবিতার ছন্দের মিল আছে!

তবে একটু গম্ভীর হলেও পরেরটা আমার বেশি ভাল লেগেছে!
ইচ্ছে ছিল বৃষ্টিতে ভেজার- হল আর কই :(

০২ রা জুন, ২০২১ সকাল ১০:২১

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: জাজাকাল্লাহ খাইরান ভাইয়া। অনুপ্রেরণামূলক মন্তব্যের জন্য কৃতজ্ঞতা রইলো।

ভিজলেন না ক্যান। কত বৃষ্টি হইছে সকালে।

১৭| ০১ লা জুন, ২০২১ রাত ৮:৪৯

সাড়ে চুয়াত্তর বলেছেন: বৃষ্টির কবিতা দুটি উপভোগ করলাম। তবে আজকে বৃষ্টির কারণে বাড়তি এক ঘণ্টা জামে আটকে ছিলাম। তারপরও বৃষ্টি গরম কমিয়েছে।

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:০৭

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: হুম ভোগান্তি বাড়ে ঢাকার বৃষ্টিতে।

জাজাকাল্লাহ খাইরান
ভালো থাকুন অনেক অনেক ফি আমানিল্লাহ

১৮| ০১ লা জুন, ২০২১ রাত ১১:৪৪

অনল চৌধুরী বলেছেন: আপনার বাসা থেকে অফিস কতো দূরে?
আজ কি গিয়েছিলেন?
ঢাকার সব রাস্তা কেটে কোটি কোটি টাকার পাইপ বসিয়ে কি লাভ হলো?
আগের মতোই তো পানি জমছে !!

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১২:১৮

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: আমার বাসা থেকে বেশী দূরে নয় ৮ থেকে দশ মিনিট লাগে হেঁটে আসতে। কিন্তু এসব দিনে রিক্সা পাওয়া যায় না। কাল খুব দুভোর্গ হয়েছে। । ময়লা পানি দিয়া হেঁটে আসতে হয়েছে। আমিও সেটাই বলি এত পাইপ বসায়ে কী হলো

ধন্যবাদ অনল ভাইয়া
ভালো থাকুন

১৯| ০২ রা জুন, ২০২১ রাত ১২:৫৯

সোহানী বলেছেন: চমৎকার কথামালা।

দেশে সামান্য বৃষ্টিতে এমন জলাবদ্ধতা তৈরী হয় তাতে খুবই কষ্ট হয় চলাচলে।

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১:০০

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: জাজাকিল্লাহ খাইরান আপি।

আমাদের জন্যই এ সমস্যার সৃষ্টি। পরিচ্ছন্নতার দিক দিয়ে আমরা অনেক পিছিয়ে। ছেড়া পলিথিন থেকে ধরে সবই ডাস্টবিনে না ফেলে রাস্তায় ফেলি । আর এ ময়লা ম্যানহোলে আটকে গিয়ে জলাবদ্ধতার সৃষ্টি করে

২০| ০২ রা জুন, ২০২১ রাত ১:০০

রাজীব নুর বলেছেন: আমার মন্তব্যের উত্তর দেওয়ার জন্য আপনাকে আন্তরিক ধন্যবাদ। ভাল থাকুন।

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১:০১

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: আপনাকেও ধন্যবাদ আবার ব্লগে আসার জন্য। ভালো থাকুন আপনিও

২১| ০২ রা জুন, ২০২১ সকাল ৭:৪৪

ডঃ এম এ আলী বলেছেন:


ভাল লাগল কবিতা দুটুই।

বৃষ্টি নিয়ে কবিতাটি বেশী সুন্দর হয়েছে
অপনার কবিতার কথামালা মনে ধরেছে
থামিসনা আজ বৃস্টি ওরে
রিনি ঝিনি ঝরে যাবি
কেও না থাকুক বৃষ্টি ছুঁয়ে
বৃষ্টি আমায় কাছে পাবি ।!

হ্যাঁ বৃষ্টিকে আমিও ভালবাসি
তাইতো
আমার যেতে ইচ্ছে করে
বৃষ্টি যেথায় বেশী পড়ে
যেথায় ছোট্ট নদীর তীরে
বাশের খোঁটায় ডিঙিনৌকা
বাধা থাকে সারে সারে।
মাঝি সব নৌকা ছেড়ে
বাজারে যায় পুটলা বেধে
চিড়া মুরী পানবিড়ি আনতে
সুযোগ পেয়ে বাশের খোঁটার
বাধন খুলে নৌকা নিয়ে
বৈঠা বেয়ে বৃষ্টি মাথায়
মাঝ নদী বরাবর ভাসতে।

শুভেচ্ছা রইল

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১:০৩

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: মাশাআল্লাহ কী সুন্দর হয়ে লিখাটা।

কিন্তু ঢাকার বৃষ্টিতে শহরবাসীদের দুভোর্গ হয় বেশী। জলাবদ্ধতার সমস্যা আজও গেলো না। প্রভাবশালীরা নাকি খাল দখল করে প্রাসাদ বানাচ্ছে। কিন্তু অন্যায়ভাবে বানাচ্ছে তাদের ধরার ক্ষমতা কী কারো নাই আজব কথা না বলেন

২২| ০২ রা জুন, ২০২১ সকাল ৮:৩০

তাজেরুল ইসলাম স্বাধীন বলেছেন: বৃষ্টি কেলে করেও আসতে পারতেন! সেক্ষেত্রে অবশ্য একটি ছাতার প্রয়োজন ছিলো অবশ্যই। :)

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১:০৪

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: হুম ছাতার উপর ভাসতে ভাসতে অফিসে আসতে পারতাম তাই না

২৩| ০২ রা জুন, ২০২১ সকাল ৮:৩২

তাজেরুল ইসলাম স্বাধীন বলেছেন: বৃষ্টি কোলে করেও আসতে পারতেন! সেক্ষেত্রে অবশ্য একটি ছাতার প্রয়োজন ছিলো অবশ্যই। :)

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১:০৪

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: ধন্যবাদ ভাইয়া
ভালো থাকুন ফি আমানিল্লাহ

২৪| ০২ রা জুন, ২০২১ সকাল ৯:৪৩

দেশ প্রেমিক বাঙালী বলেছেন:







বৃষ্টি পরে ঝুমুর ঝুমুর
বাদলা দিনের একটানা সুর!

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১:২৪

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: আহা কী সুন্দর
অনেক ধন্যবাদ বাঙালী
ভালো থাকুন

২৫| ০২ রা জুন, ২০২১ সকাল ১১:২২

পদ্ম পুকুর বলেছেন: আমার অবশ্য পরিষ্কার পানি পেরিয়ে আসার সৌভাগ্য হয়নি। সকালে বাসা থেকে বের হওয়ার সময় বুঝতেই পারিনি যে এমন সমস্যায় পড়তে পারি। বাসা থেকে অফিসে আসার পথে বিভিন্ন যায়গায় গোড়ালি ডুবে যাওয়া পানি। পাশ দিয়ে দ্রুত চলে যাওয়া গাড়িগুলো ময়লা পানি দিয়ে অভিনন্দন জানিয়ে যাচ্ছে.... গা ঘিনঘিনে অভিজ্ঞতা নিয়ে অফিসে ঢুকতে হয়েছে। ভাগ্যিস অফিসে একসেট ড্রেস রাখি সবসময়...

০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ১:২৯

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: ভাইরে পরিস্কার পানি কই পামু। যাই একটু পায়ের গোড়া ভিজছিলো তাও গাড়ির ধাক্কার ঢেউয়ে আমার জামা কাপড় ভিজে যায় নোংরা পানিতে। অফিসে এসে অর্ধেক পর্যন্ত ধুই, শুকায় নাই শেষ পর্যন্ত । অফিসের ভিতরের পানি পরিস্কার ছিলো তাই সেখানে ইচ্ছে করেই পা ডুবিয়ে হেঁটেছি।
তবে জোতার কাম বারোটা বাজছে। গা ঘিনঘিন অবস্থা আমারও।

ছেলেরা ড্রেস রাখতে পারে বদলাতে পারে কিন্তু মেয়েদের ইতা ব্যবস্থা নাই :(

ধন্যবাদ ভাইয়া ভালো থাকুন

২৬| ০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ২:৪৪

পদ্ম পুকুর বলেছেন: ছেলেরা ড্রেস রাখতে পারে বদলাতে পারে কিন্তু মেয়েদের ইতা ব্যবস্থা নাই :(


আমার অফিসেও আসলে এই সুবিধা নেই। অতীত অভিজ্ঞতা বিবেচনায় আমাদের ডিপার্টমেন্টে একটু জোরজার করে আর কিছুটা লুকিয়ে এই ব্যবস্থা করে রেখেছি।

০২ রা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:০০

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: খুবই ভালো করেছেন। মূল্যবান আটঘন্টাই তো অফিসে । কিছু সুযোগ সুবিধা থাকতেই পারে। :)

২৭| ০২ রা জুন, ২০২১ দুপুর ২:৪৬

পদ্ম পুকুর বলেছেন: একবার ভিজে জবজবে হয়ে চেয়ারের উপর একগাদা পত্রিকা বিছিয়ে ভেজা প্যান্ট শুকানোর কোশেশ করতে করতে অফিস করতে হয়েছিলো... তারপর থেকেই ওই ব্যবস্থা করেছি।

০২ রা জুন, ২০২১ বিকাল ৩:০১

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: আমার এ অবস্থা হতো আগে, আইজি গেইট ব্যাংক কলোনী থাকতে। বাস জ্যাম লাগলে অনেক দূর দাড়াইতো আর আমি ছাতা নিতাম না বৃষ্টির দিন ভিজে জবুথবু হয়ে অফিসে সারাদিন ভেজাকাকের মত থাকতাম হাহাহা। সেইগুলো এখন স্মৃতি হয়ে আছে।

:)

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.