নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

সম্পদহীনদের জন্য শিক্ষাই সম্পদ

চাঁদগাজী

শিক্ষা, টেকনোলোজী, সামাজিক অর্থনীতি ও রাজনীতি জাতিকে এগিয়ে নেবে।

চাঁদগাজী › বিস্তারিত পোস্টঃ

নতুন কাউকে আওয়ামী লীগের সভাপতি করে, পরীক্ষা করার শেষ সুযোগ

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:০৯



শেখ হাসিনা ৩৯ বছর আওয়ামী লীগের সভাপতি, এটা অগণতান্ত্রিক ও জাতির প্রতি অন্যায়। উনার বেলায় কিছুটা ব্যতিক্রমের দরকার ছিল: উনার নিজের প্রাণ রক্ষা, ৩ টি আওয়ামী লীগ থেকে ১টি আওয়ামী লীগ করা, ও মিলিটারীর সৃষ্টি রাজনৈতিক দলগুলোকে কন্ট্রোলে আনা ইত্যাদি ইত্যাদি। তবে, সেটাও দরকারের চেয়ে বেশী করা হয়েছে। ২০০৯ বা ২০১৪ সাল থেকে উনার দরকার ছিলো আওয়ামী লীগকে ১৯৪৮ সালের আওয়ামী লীগের আদলে ফেরত নেয়া।

উনি প্রয়োজনের চেয়ে খুব বেশী সময় আওয়ামী লীগের সভাপতি থাকায়, কাউকে দলের ব্যাপারে তেমন দায়িত্ন না দেয়ায়, এখন তিনি সব ক্ষমতার অধিকারী, নতুন কোন ব্যক্তি দল চালানোর দক্ষতা অর্জন করতে পারেনি, ইহা রাজনৈতিক দিক থেকে ভয়ংকর অবস্হা। আরো খারাপ যা ঘটেছে, তা হলো, দেশে আওয়ামী লীগের দ্বৈত সরকার চলছে, এবং আওয়ামীরা উনাকে যতটুকু সমীহ করেন, ভালোবাসেন, তার চেয়ে বেশী ভয় করেন।

শেখ হাসিনা-পরবর্তী আওয়ামী লীগের সভাপতি যদি তিনি থাকাকালীন না বানান, সেই সভাপতির টিকে থাকা মুশকিল হতে পারে: আওয়ামী লীগের একাংশ ও প্রশাসনের লোকজন উহাকে না মানার সম্ভাবনা আছে। যদি শেখ হাসিনা, নতুন সভাপতির কার্যকলাপ নিজের চোখে দেখেন ও সাহায্য করেন, উহার টিকার সম্ভাবনা আছে; আর অবস্হা খারাপ হলে, উহাকে বদলাতে পারবেন শুধু শেখ হাসিনা; শেখ হাসিনার অনুপস্হিতে যিনি পদ পাবেন, উনি চালাতে না পারলেও জীবনেও সরতে চাইবেন না, তখন আওয়ামী লীগ বিভক্ত হবে।

এবার যদি শেখ হাসিনা সভাপতি না হয়ে, নতুন ১ জনকে মাত্র এক টার্মের জন্য বানান, আওয়ামী লীগও হারিয়ে-যাওয়া গনতন্ত্রের সাথে আবার নতুন করে অভ্যস্ত হওয়ার শুরু করবে, তাদের মাথায় ক্রমেই রাজনীতি ফিরে আসবে, ক্রমেই নিজেদের দায়িত্ব সম্পর্কে ভাবার শুরু করবে। আবারও যদি শেখ হাসিনা সভাপতির পদ দখল করেন, তা'হলে আগামী ৫ বছরও সব কিছু আপার উপর বর্তাবে, কেহ সুঁচও নড়াবে না, সবকিছু আপাকে করতে হবে; শেষমেষ আপাকে মমি করে আওয়ামী লীগের সভাপতি বানিয়ে রাখতে হবে।

শেখ হাসিনা একই সাথে আওয়ামী লীগের সভাপতি ও দেশের প্রাইম মিনিষ্টার থাকায়, কোনটাই সঠিকভাবে চলেনি; এবারই উনার হাতে শেষ সুযোগ, অন্য কাউকে সভাপতি বানিয়ে দেখা আওয়ামী লীগ কিভাবে মেনে নেয় ও দলে কি পরিবর্তন আসে। আওয়ামী লীগ বড় দল হিসেবে, সভাপতি ও সেক্রেটারীকে দলের বাইরে, সরকারে কোন দায়িত্ব দেয়া ঠিক হবে না। ওয়ায়দুল কাদের সাহেব দলকে সংগঠিত করতে ব্যর্থ হয়েছে, দলে রাজনীতি নেই, এগুলোর স্হায়ী সমাধান হওয়ার দরকার।

শেখ হাসিনা এবার যদি নিজে সভাপতি হন আবারো, অন্য কাউকে নিয়ে এক্সপেরিমেন্ট করার মতো উনার হাতে সময় থাকবে কিনা বলা মুশকিল; সেজন্য মনে হয়, এবারই ভালো সুযোগ, নতুন কাউকে সভাপতি বানায়ে পরীক্ষা করে দেখার।

মন্তব্য ৬০ টি রেটিং +৪/-০

মন্তব্য (৬০) মন্তব্য লিখুন

১| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:২৩

বিচার মানি তালগাছ আমার বলেছেন: কিন্তু চামচারা তেনাকে ছাড়া আর কাউকে দেখতে রাজি নয়। তিনিও পরিবারের বাইরে কাউকে দিলে অনেকে মানবে না। পরিবারের ভেতর কাউকে দিলে উনার জীবিতাবস্থায় ঝামেলা হবে না। সবচেয়ে ভাল দিক হল, ভোটের মাধ্যমেই সভাপতি নির্বাচন করা হোক...

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৩৪

চাঁদগাজী বলেছেন:


আওয়ামী লীগ বাংগালীদের একমাত্র সঠিক রাজনৈতিক দল, শুধু মাত্র ভোটের মাধ্যমে ইহার সভাপতি হওয়ার দরকার; দল সেটার জন্য মানসিকভাবে প্রস্তুত আছে বলে মনে হয় না।

২| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:০৯

খোলা মনের কথা বলেছেন: আওয়ামী লীগ বাংগালীদের একমাত্র সঠিক রাজনৈতিক দল হাহাহা.....

এটাই সারাজীবন রাজত্ব করলে আপনার আর আপনাদের খালাতো ভাইদের কলিজা ঠান্ডা থাকে। জনগন ভোট দিতে পারুক না পারুক, জনগন বাচুক মরুক, আইনের শাসন থাকুক না থাকুক ইত্যাদি ইত্যাদি.. তারাই দেশ চালবেন, চেটেপুটে খাবে, তাদের বিরুদ্ধে কথা বললেই গুম মারা পড়বে এগুলো ভালভাবে দেশ চালতে হলে একঅধটু করতে হয়....

নিউজে দেখলাম ১০৭৮৯ জন রাজাকারের তালিকা প্রকাশ করেছে। আমি মনে করি আওয়ামীলীগ বাদে সবাই রাজাকার, কষ্ট করে তালিকা করার দরকার কি??? আপনি কি মনে করেন??

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:১৫

চাঁদগাজী বলেছেন:



রাজাকার ৫৫ হাজার ছিলো, মুক্তিযোদ্ধা ১ লাখ ২০ হাজার ছিলো; কোনটাতে আপনার নাম আছে?

পাকিস্তান স্বাধীন হওয়ার পর, ততকালীন বুদ্ধিমান বাংগালী রাজনীতিবিদরা ১৯৪৮ সালে আওয়ামী লীগ গঠন করেছিলেন; এটাই বাংগালীদের জন্য সঠিক দল ছিলো।

৩| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:১৭

জাহিদ হাসান বলেছেন: আমি আওমীলীগের লোক না। বিএনপিরও লোক না।
আমি অরাজনৈতিক মানুষ। তবুও মনে করি শেখ হাসিনার জায়গা নেয়ার মত আওমীলীগে কেউ নেই।

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:২৩

চাঁদগাজী বলেছেন:



রাজনীতি না করে দেশে থাকা দেশের জন্য ভালো নয়, অন্যেরা আপনার শুন্যস্হান দখল করছে।
শেখ হাসিনা একাই ৩৯ বছর থাকলে, দলে অন্য দক্ষ লোকজন গড়ার সুযোগ কিভাবে থাকবে?

৪| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৩৩

খোলা মনের কথা বলেছেন: রাজাকার ৫৫ হাজার ছিলো, মুক্তিযোদ্ধা ১ লাখ ২০ হাজার ছিলো; কোনটাতে আপনার নাম আছে
সময়ের সাথে রাজাকার আর মুক্তিযোদ্ধাদের সংঙা পরিবর্তন হয়ে গেছে এটা মনে হয় জানেন না....

পাকিস্তান স্বাধীন হওয়ার পর, ততকালীন বুদ্ধিমান বাংগালী রাজনীতিবিদরা ১৯৪৮ সালে আওয়ামী লীগ গঠন করেছিলেন; এটাই বাংগালীদের জন্য সঠিক দল ছিলো। বঙ্গবন্ধুর জন্মদিন মৃতুদিনে দেশের মোড়ে মোড়ে ভুড়ি ভোজ, মাইক ফটিয়ে পালন করা হয়... আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাতা মাওলানা ভাসানীর জন্ম মৃতু দিন কত জন বাঙ্গালী জানে??? বর্তমান পাতি নেতারা মাওলানার কথা ঠিক করে জানেও না.... বর্তমান সময়েও কি সঠিক দল আছে বলে মনে হয় আওয়ামী লীগ???

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০১

চাঁদগাজী বলেছেন:


মুক্তিযুদ্ধ ও মুক্তিযোদ্ধাদের সংজ্ঞা আমার কাছে বদলায়নি, কোটী কোটী বাংগালী আছেন, যাঁদের কাছে বদলায়নি।

আওয়ামী লীগ তার রাজনীতি ফেলে দিয়ে সাধারণ দলে পরিণত হয়েছে, উহাকে রাজনৈতিক দলে পরিণত করা বর্তমান সভাপতির দায়িত্ব

৫| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৩৬

শাহিন-৯৯ বলেছেন:


শেখ হাসিনা চাইলে বুদ্ধিমান ব্লগার চাঁদগাজীকে এক টার্ম দিয়ে দেখতে পারেন!!!

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০১

চাঁদগাজী বলেছেন:


আমি রাজনীতি করিনি, করলে হয়তো হতেও পারতাম

৬| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৩৮

শাহিন-৯৯ বলেছেন:



আওয়ামী লীগ বাংগালীদের একমাত্র সঠিক রাজনৈতিক দল।
একদম ঠিক বলেছেন!!!
দলের প্রতিষ্টাতা সভাপতি ভাসানীর নামে ছিল "ভাসানী নভোথিয়েটার" সেই নামটাও এই দলটি রাখেনি, পরিবর্তন করেই ছেড়েছে।
এই রকম হিংসুক দল বাংলাদেশে একটিও নাই।

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০৩

চাঁদগাজী বলেছেন:


দল এখন রাজনীতি করছে না, উহাকে রাজনীতিতে ফেরত নেয়াই শেখ হাসিনার জন্য চ্যালেন্জ।

পাকিস্তান স্বাধীন হওয়ার পর, সঠিক মানুষেরা এই দলটি গঠন করেছিলেন, ইহাই সঠিক দল ছিলো।

৭| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪০

শাহিন-৯৯ বলেছেন:



ব্লগার খোলা মনের কথা ভাই, উনি সবসময় টিনের চমশা পড়েন তাই রাজাকার বেয়াই দেখতে পান না, দেখতে পান বীর মুক্তিযোদ্ধা রাজাকার!!!!

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০৪

চাঁদগাজী বলেছেন:


আপনি সঠিক চশমা পরেন; আপনারা কিছু বাংগালী ও বার্মার লোকজন ব্যতিত বিশ্বের সবাই মিলিটারী শাসকদের বিপক্ষে।

৮| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৫৪

জাহিদ হাসান বলেছেন: রাজনীতি না করে দেশে থাকা দেশের জন্য ভালো নয়, অন্যেরা আপনার শুন্যস্হান দখল করছে।

পাসপোর্টের আবেদন জমা দিছি। এইবার বুঝে নিন।

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০৭

চাঁদগাজী বলেছেন:


বিদেশে যান, কি মধু আছে টের পাবেন। স্বদেশের মতো কিছু পৃথিবীতে নেই।

৯| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৬

শাহিন-৯৯ বলেছেন:



আপনারা কিছু বাংগালী ও বার্মার লোকজন ব্যতিত বিশ্বের সবাই মিলিটারী শাসকদের বিপক্ষে।
আপনার ধারণা ভুল, জিয়াউর রহমানকে সমর্থন দেওয়া মানে মিলিটারী শাসনের পক্ষে এই কথা ঠিক নয়, জিয়া কোন প্রতিষ্ঠিত সরকার উৎখাত করে ক্ষমতা দখল করেনি বরং সেনাবাহিনী সংখ্যাগরিষ্ঠ আর সাধারণ মানুষের দাবির কারণেই তাকে ক্ষমতা নিতে হয়েছিল।

সবচেয়ে বড় কথা বাকশাল!! যদি আপনার ভাষায় মুজিব সরকার গনতান্ত্রিক ধারা অব্যহত রেখে দেশ শাসন করে যেত তাহলে জিয়াউর রহমানকে কখনো রাষ্ট্র ক্ষমতা আসতে হতো না বা প্রয়োজন হতো না।

বঙ্গবন্ধু নামটি জন্ম হয়েছিল গনতান্ত্রিক অধিকার আদায়ের ভূমিকার জন্য অথচ তিনিই পুরাে ইউটার্ন নিয়ে এক দলীয় শাসন কায়েক করতে চাইলেন!! বিশ্বে এমন ঘঠনা সম্ভবত বিরল!!!

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৩৪

চাঁদগাজী বলেছেন:


জিয়া ১৯৭৫ সালের হত্যাকান্ড ঘটার পর ক্ষমতায় এসেছিলো; আদা বেপারী ও রাজনীতি একই পেশা নয়

১০| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৯

শাহিন-৯৯ বলেছেন:


আজ দেখলাম রাজকারদের তালিকার প্রথম পর্ব প্রকাশ হয়েছে। বৃহত্তম ফরিদপুর দিয়ে শুরু, যদি নুরু রাজাকারের নাম না থাকে তাহলে কি আপনি মনে করেন এই লিষ্ট প্রশ্নবিদ্ধ? নাকি আপনিও নুরু রাজাকার বলতে কেউ ছিল না বলে মনে করেন?

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৩৯

চাঁদগাজী বলেছেন:





৫৫ হাজার রাজাকার ও ১ লাখ ২০ হাজার মুক্তিযোদ্ধার প্রতিজনকে আমি চিনি না; এবং কোন লিষ্ট আমি করিনি।

প্রতি গ্রামের বয়স্ক শিক্ষক ও মুক্তিযো্ধাদের থেকে লিষ্ট নিলে সঠিক লিষ্ট হবে।

১১| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৯

গিয়াস উদ্দিন লিটন বলেছেন: ভোটের মাধ্যমে আওয়ামীলীগ সভাপতি নির্বাচন করবে?
আপনি জানেন না বর্তমান আওয়ামীলীগের অভিধানে ভোট বলে কিছু নেই !

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৩৫

চাঁদগাজী বলেছেন:


আওয়ামী লীগে ভোয় নেই, তাই পোষ্ট লিখছি

১২| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৪০

শাহিন-৯৯ বলেছেন:



জিয়া ১৯৭৫ সালের হত্যাকান্ড ঘটার পর ক্ষমতায় এসেছিলো; আদা বেপারী ও রাজনীতি একই পেশা নয়।
যুক্তি না পারলে ব্যাক্তি প্রসংঙ্গ!! তাও ভাল আছি, ব্যবসা করি, আওয়ালীগের মত চোর দলের পাশে দাঁড়াই না।

১৯৭৫ সালে যারা হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত, রাস্তা তৈরি করেছিল তারা সবাই এখন শেখ হাসিনার পাশে। যে দিন এই সত্য উপলব্ধি হবে সেই দিন আপনার বোধ শক্তি মুক্তি পাবে।

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৪৪

চাঁদগাজী বলেছেন:


শেখ হাসিনা ৩৯ বছরে নিশ্চয় জানেন, কে তাঁর বাবাকে হত্যা করেছিল।

১৩| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৪৩

শাহিন-৯৯ বলেছেন:


৫৫ হাজার রাজাকার।
আমি সব রাজাকার কে চিনতে বলছি না, শুধু বৃহত্তম ফরিদপুরের শান্তি কমিটির চেয়ারম্যানকে চিনতে বলছি যিনি বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় চেতনা ধারক ব্যাক্তির বেয়াইয়ের বাবা। শুনা যায় উনার বেয়াইও নাকি রাজাকার ছিল।

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৫১

চাঁদগাজী বলেছেন:


আমি জানি না, শেখ সাহেবের মেয়ে কি আপনার থেকে কম বুঝেন যে, কোন রাজাকারকে উনি সহ্য করবেন? আমি নিজগ্রামের বাহিরের কোন রাজাকারকে চেনার সুযোগ পাইনি; সংবাদে দেখেছি যতটুকু।

শেখ হাসিনা শান্তি কমিটির লোকজনকে নিয়ে ঘাঁটাঘাঁটি করেননি। আর উনি যদি কোন রাজাকারকে ছেড়ে দেন, আমরা কি করবো? রাজাকারদের শাস্তি দেয়ার দায়িত্ব উনার উপরই ন্যস্ত!

১৪| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৫১

শাহিন-৯৯ বলেছেন:



শেখ সাহেবের মেয়ে কি আপনার থেকে কম বুঝেন যে, কোন রাজাকারকে উনি সহ্য করবেন?
জি না, উনি কম বুঝেন না, তাই তিনি বলেছিলেন -তিনি বাধ্য হয়ে শান্তি কমিটির চেয়ারম্যান হয়েছিলেন!!! বাংলাদেশের বাকি সব শান্তি কমিটির চেয়ারম্যান লাফাইতে লাইফাতে কমিটির চেয়ারম্যান হয়েছিলেন, শুধু একজন অনিচ্ছা সত্ত্বেত চেয়ারম্যান হয়ে ছিলেন!!! কি সুভাগ্য উনার তিনি এখন চেতনা দলের আত্নীয়!!!

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:১৫

চাঁদগাজী বলেছেন:


উনার বাবা উনার মতো কঠিন ছিলেন না, শেখ হাসিনা রাজাকারদের বেলায় কঠিন ছিলেন; শান্তি কমিটির লোকজনের বিপক্ষে কি ব্যবস্হা নিয়েছেন, সেটা পরিস্কার নয়।

১৯৭১ সালে, প্রায় ১ কোটী ৫০ লাখ মানুষ বাংলাদেশ চাহেনি, এদেরকে ও তাদের ছানাপোনাকে তো ফেলে দেয়া যাবে না।

১৫| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:০৫

শিখণ্ডী বলেছেন: অনেককেই বলতে শুনি আওয়ামীলীগের অমুক তমুক রাজাকার ছিল, কিন্তু দল তার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেয়নি। যদি কারও কাছে তথ্য থাকে তবে তার বিরুদ্ধে মামলা করা উচিত। রাজাকার ধরার দায়ীত্ব কি কেবল আওয়ামীলীগের?

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:০৯

চাঁদগাজী বলেছেন:


অনেক রাজাকার পালিয়ে গিয়েছিল, সব রাজাকারকে মানুষ জানেও না; আওয়ামী লীগ বিরাট দল, ইহাতে সব ধরণের লোকজন আছে; ইহাকে দল হিসেবে সঠিক রাখা শেখ হাসিনার দায়িত্ব। উনি দায়িত্ব ঠিকভাবে পালন করেছেন বলে মনে হয় না।

১৬| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:০৩

রাজীব নুর বলেছেন: নতুন কাউকে আওয়ামী লীগের সভাপতি করে, পরীক্ষা করার শেষ সুযোগ

এই সাহস শেখ হাসিনার নেই। উনি আমৃত্যু দলের সভাপতি হয়েই থাকবেন।

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:১১

চাঁদগাজী বলেছেন:


উনার দল আর গণতান্ত্রিক দল নয়, উনার ৩৯ বছর সভাপতির পদই তা প্রমাণ করছে; উনি যদি দলকে এই অবস্হায় রাখে যান, ইহার কি হবে বলা মুশকিল।

১৭| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:১৩

স্বামী বিশুদ্ধানন্দ বলেছেন: অন্য কাউকে শীর্ষ নেতৃত্বে স্থান দিলে ভবিষতে সে শেখ হাসিনাকেই ল্যাং মারবে | এতো বড় গ্যাম্বলিং তিনি করবেন বলে মনে হয় না | আমার মনে হয় না আগামী ১০০ বছর লীগ আর বিএনপির নেতৃত্ব শেখ ও জিয়া পরিবারের নিয়ন্ত্রণ থেকে বের হয়ে আসতে পারবে |

১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:১৭

চাঁদগাজী বলেছেন:


শেখ হাসিনার উচিত বিশ্বস্ত কাউকে এবার ক্ষমতা দেয়া; এবং বিএনপি ও জাপাকে ভেংগে দেয়া।

১৮| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৫৫

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন:




শেখ হাসিনা অগ্নি পরীক্ষা দিয়ে বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন। বাংলার মাটির ইতিহাসে নবাব, রাষ্ট্রপতি প্রধানমন্ত্রী কেউ এতোবড় ত্যাগ স্বীকার করেছেন বলে আমার জানা নেই। আর এমন কঠিন অগ্নি পরীক্ষা ও দেননি। ব্লগে শেখ হাসিনা সম্পর্কে মানুষ ততোটুকু জানেন যতোটুক ফেসবুক নামক থার্ডক্লাস মূর্খ্যদের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার হয়, আর এই প্রচার করেন মধ্যপ্রাচ্য থাকা উট দুম্বা পালনকারী তথাকথিত যদু মধু অকর্মা জনতা।

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:১৫

চাঁদগাজী বলেছেন:


উনি যেভাবে নিজকে সাজায়েছেন, আওয়ামী লীগ মানেই উনি; এখন উনাকে ভাবতে হবে, দলকে কি করে নতুনভাবে সাজাতে হতে, যাতে উনার অনুপস্হিতিতে ইহা টিকে, এবং দেশের রাজনীতিতে ফিরে আসতে পারে।

১৯| ১৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৫৮

স্বপ্নের শঙ্খচিল বলেছেন: তিনি সব ক্ষমতার অধিকারী, নতুন কোন ব্যক্তি দল চালানোর দক্ষতা অর্জন করতে পারেনি,
ইহা রাজনৈতিক দিক থেকে ভয়ংকর অবস্হা।

......................................................................................................................
ইতিহাস সাক্ষ্য দেয় যে, ক্ষমতার সুউচ্চ পাহাড়ে থাকলে স্বাভাবিক বোধ জ্ঞান লোপ পায়,
চামচাদের চমৎকার গুনগানে জনসাধারনের সঠিক ধ্যান ধারনা ক্ষমতার মসনদ পর্যন্ত
যায় না, গনতন্ত্র স্বকীয়তা হারায় ।
সত্যি কারের গনতন্ত্রর পরীক্ষা নেবার জন্য আমাদের জনগন এখনও প্রস্তুত নয় ।
তবে দলের মধ্যে গনতন্ত্রর র্চচা শুরু করা অত্যন্ত জরুরী ।
...........................................................................................................................
বর্তমান প্রধানমন্ত্রীর কিছু ভিশন আছে, তা বাস্তবায়ন পর্যন্ত তিনি ক্ষমতায় থাকবেন,আমি তাই মনেকরি ।

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:১৭

চাঁদগাজী বলেছেন:


উনার ভিশনগুলো আধুনিক বিশ্বমানের বলে মনে হচ্ছে না; এখন উনার দলকে রাজৈতিক দলে পরিণত করাই উনার বড় কাজ।

২০| ১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১:১৪

ঢাকার লোক বলেছেন: শেখ হাসিনাকে ছাড়া বর্তমান আওয়ামী লীগে এমন কোনো সিনিয়র বা জুনিয়র নেতা নেই যাকে দলের অন্যরা সবাই মানবে। গত ৩৯ বছরে কেউ এভাবে তৈরী হয়নি, কারো ইচ্ছা ছিল কিনা জানিনা কিন্তু সে সুযোগ ছিল বলে মনে হয়না । আপনার পরামর্শ যথেষ্ট যুক্তিযুক্ত, তবে এখন অন্য কাউকে সভাপতি বানালে শেখ হাসিনাকেই আড়ালে থেকে তার সভাপতিত্ব বজায় রাখতে সার্বক্ষণিক পাহারাদার হিসাবে কাজ করে যেতে হবে । উনি অবসরে গিয়েও যদি ক্ষনিকের জন্য স্বস্তিতে অবসর নাই পান তো তার চেয়ে উনার থাকাই ভালো । এতে অন্তত দলে প্রকাশ্য সভাপতির চেয়ে অপ্রকাশ্য কেউ অধিক ক্ষমতাবান হিসাবে আরেকটা বাজে উদাহরণের সৃষ্টি হবে না ।

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১:১৮

চাঁদগাজী বলেছেন:



উনি দল ও দেশ চালাতে গিয়ে কোনটাই সঠিকভাবে পারেননি; দেশ পেছনে পড়ে গেছে, দল হয়েছে অগণতান্ত্রিক; এটার সমাধান দরকার।

২১| ১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ২:৩১

ঢাকার লোক বলেছেন: এর সমাধান একমাত্র দেশে এবং দলে গনতন্ত্র কায়েম করা, জনগন ভুল করতে পারেনা, একটা ছোট গোস্টি ভুল করতে পারে, জনগনের অধিকাংশ ভুল করে না, এর প্রমান আমাদের মুক্তিযু!

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ২:৩৬

চাঁদগাজী বলেছেন:



সেটা কি করে এদের বুঝাবেন?
গণতন্ত্রই এখন একমাত্র সমাধান, দলে ও সরকারে গণতন্ত্র চালু করলে, দেশ বদলে যেতো!

২২| ১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:১০

রায়হানুল এফ রাজ বলেছেন: ভালো মানুষ হাজার বছর এক পদে থাকলেও কোন সমস্যা নয়।

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪১

চাঁদগাজী বলেছেন:


আধুনিক বিশ্বে বাংগালীদের দেশ এভাবে চালানো সঠিক হচ্ছে না, উনি ইতিহাসে সুনাম পাবেন না।

২৩| ১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:৩৯

মোহামমদ কামরুজজামান বলেছেন: "শেখ হাসিনা তার পাশে যোগ্য লোক বা নেতা পছন্দ করেননা" তা আপনি অনেকবার বলেছেন।
আসলেই তা সঠিক । উনি উনার চারপাশে জি হুজুর মার্র্কা লোক পছন্দ করেন। উনি যতদিন আছেন ততদিন অন্য ব্যক্তির কোনও সুযোগ নেই।

তবে দলের ভালর জন্য, ভবিষ্যতের নেতৃত্বর জন্য অন্য ব্যক্তিকে সুযোগ দেওয়া উচিত।

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪২

চাঁদগাজী বলেছেন:


উনার সময় শেষ হয়ে গেছে ২০১৬ সালে টিকে যাবার পর, এরপর উনি থাকার দরকার নেই, উনি পরামর্শ দিতে পারেন।

২৪| ১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:০৪

হাবিব স্যার বলেছেন: সহসায় পদ পরিবর্তন হবে বলে মনে হয় না

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪৪

চাঁদগাজী বলেছেন:



জাতির বিশাল অংশ উনার কার্যক্রমকে ভালো চোখে দেখছে না

২৫| ১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:৪০

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন:




চাঁদগাজী ভাই,
বাংলাদেশে গণতন্ত্র নেই বুঝলাম বা মেনে নিলাম। পৃথিবীর কয়টা দেশে গনতন্ত্র ও গণতন্ত্রের চর্চা আছে? দেশের মঙ্গল সদিচ্ছায় নয় শুধু মা্ত্র ক্ষমতা দখলের ইচ্ছেতে যদি বিএনপি জামাত দল সরকার গঠন করতে চায় তাহলে আওয়ামীলীগ থাকুক ক্ষমতায় আরো ১০০ বছর। - আমার কোনো সমস্যা নেই। দেশের ১৭ কোটি মানুষের সমস্যা থাকলে থাকতেও পারে। পেঁয়াজ ২০০/২৫০ টাকা কেজির জন্য জনগণ দায়ী - সরকরা না। জনগণকে বলুন একটু কম করে খেতে - এতো খেতে হয় না। এতো এতো মাছ মাংস খেয়ে খেয়ে ফার্মেসীর ঔষধই শেষ করছেন তারা।

হাওয়া ভবনের ত্রাস সবাই ভুলে গেছেন - গুম, পালিশ, লুট, খাম্বা, সিএনজি, নর্দমার কালা জাহাঙ্গির, চৌধুরী আলম, পিচ্চি হান্নান সুইডেন আসলাম, বাংলা ভাই, হিজবুল্লাহ, আনসারুল্লাহ ত্রাস পহেলা বৈশাখের পান্তা ইলিশের সাথে ভক্ষণ করে পার পাওয়া যাবে না।


১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪৬

চাঁদগাজী বলেছেন:


বিএনপি ও জাপা মিলিটারীর সৃষ্টি, জামাত বাংলাদেশের বিপক্ষে যুদ্ধ করেছে, এদেরকে উৎখাত করার দরকার ছিলো; সাথে সাথে দেশকে সিংগাপুর, সুইডেন ইর‌্যাদির মতো চালানোর দরকার ছিলো।

২৬| ১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ২:৩৪

বাকপ্রবাস বলেছেন: বর্তমান সময়ের মন্ত্রী এমপিরা শেখ হাসিনাকে তৈলাক্ত সম্মান দিয়ে ওনাকে মহামানবী বানিয়ে যেসব কথা বলে আমার বমি আসে, এমনটা বিএনপিও করে। বর্তমান রাজনীতির কথাবার্তা চাল চলন ইত্যাদির কোন আগামাথা পাইনা, হযবরল শিশু সুলভ বলে মনে হয়।

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪৯

চাঁদগাজী বলেছেন:



বিএনপি, জাপা এসেছে কেনটনমেন্ট থেকে, উহাদের বিদায় করার দরকার ছিলো; জামাত যুদ্ধ করে পরাজিত হয়েছে, উহাকে বাদ দেয়ার দরকার ছিলো; তারপর যারা দেশের জন্য কাজ করেন, তাদেরকে কাজ করতে দেয়ার দরকাের ছিলো।

২৭| ১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:০৮

নুরহোসেন নুর বলেছেন: জোর যার দুনিয়া তার, পিএমের শরীরের থেকে মনের জোর বেশী;
উনার মনের জোর কমে গেলেও গনতন্ত্র ফিরে আসবে কিনা সন্দেহ!

১৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪০

চাঁদগাজী বলেছেন:


উনি এসেছিলেন পিতা হত্যার বিচার করতে; সেটা হয়ে গেছে, উনি মিশন বদলাননি

২৮| ১৭ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:১৩

খাঁজা বাবা বলেছেন: উনি বা ওনার পরিবারের কেউ না থাকলে আওয়ামীলিগ একটি দল হিসেবে থাকবে না।

১৭ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৪৪

চাঁদগাজী বলেছেন:



দলকে উনি ওখানে নিয়ে গেছেন; আওয়ামী লীগ থেকে রাজনীতি বিদায় নিয়েছে।

২৯| ১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৩৬

আরণ্যক রাখাল বলেছেন: শেষমেষ আপাকে মমি করে আওয়ামী লীগের সভাপতি বানিয়ে রাখতে হবে।
এটা ভাল বলেছেন।

১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:২৭

চাঁদগাজী বলেছেন:


বাকী চিল-কাউয়াগুলো তো রাজনীতি মাঝনীতি বুঝে না

৩০| ১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৪:২১

রায়হান চৌঃ বলেছেন: আহাঃ আজ যদি মতিয়ুর রহমান নিজামি বা গোলাম আজম বেঁচে থকতেন তবে আওয়ামী লীগের সভাপতি নিয়ে এত র্দুদশায় পড়তে হতো ন............ জোরেসোরে বলেন "জয়....য় বাংলা"

১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:২৮

চাঁদগাজী বলেছেন:


ব্যাখ্যা করেন, আমি বুঝিনি

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.