নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

সম্পদহীনদের জন্য শিক্ষাই সম্পদ

চাঁদগাজী

শিক্ষা, টেকনোলোজী, সামাজিক অর্থনীতি ও রাজনীতি জাতিকে এগিয়ে নেবে।

চাঁদগাজী › বিস্তারিত পোস্টঃ

জ্বীনপরী, দৈত্যদানব, ভুতপেত্নীতে বিশ্বাস করলে সমস্যা কি?

২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:২৩



আসলে, ইহাতে সমস্যা নেই, বরং জীবনটা বেশ আনন্দময় হয়ে থাকে; কেমন রহস্যঘেরা কথাবার্তা, টানটান উত্তেজনাভর্তি অভিজ্ঞতা, লোমখাড়া-করা গল্প: আরব্য উপন্যাসের কোন এক বাউন্ডুলে আলাদীন সামান্য প্রদ্বীপের জ্বীনকে বশে এনে রাজকুমরীকে বিয়ে করে, ধনী হয়ে, সুখশান্তিতে জীবন যাপন করেছিলো; বাংগালী দরিদ্র নাপিত আয়নার ভেতরে ভুতের প্রতিবিম্ব দেখায়ে ১ বস্তা স্বর্ণমুদ্রা নিয়ে বাড়ী ফিরলো; ব্লগার রাজিব রাত ৩টায় পানি খেতে উঠে দেখেন, খাটের কাছে একজন সুন্দরী মেয়ে তাঁর দিকে তাকিয়ে হাসছে; এগুলোর চেয়ে জীবনের বড় অভিজ্ঞতা কি হতে পারে?

খুব অল্প বাংগালী জীবনে জ্বীনভুতকে মিস করেছেন; একজন ব্লগার যদি জ্বীনভুতের গল্প ফাঁদেন ব্লগে, যাঁরা মন্তব্য করতে আসেন, তাঁদের ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতায় ব্লগের হার্ড-ড্রাইভ ভরে যাওয়ার উপক্রম। এ'ছাড়া ধর্মীয় পুস্তকে এদের উপস্হিতি, এনাটমি, ফিজিওলোজী, সোস্যাল লাইফের প্রমাণ দিয়ে সবাই নিজের বক্তব্যকে দাঁড়া করাতে প্রানপণ চেষ্টা করেন।

আমেরিকানরা প্রতিবছর হালুইন উৎসব পালন করে, ইহা জ্বীনপরী, দৈত্যদানব, ভুতপেত্নীদের নিয়ে উৎসব; গত বছর ব্যয় করেছে ৯ বিলিয়ন ডলার, ২টি পদ্মাসেতু; হালুইনের মুভি ও টিভি প্রোগ্রামের হিসেব করলে আরো ডলার যোগ হবে। বাংলাদেশের বইমেলায় যথাসম্ভব জীনপরীর উপর বইপত্র অবিক্রিত থাকে না। বাংলাদেশের বাচ্চাদের সন্ধ্যাবেলার দুরন্তপনা কমানোর একটা সহজ পদ্ধতি হলো ভুত আসছে বলা। ছোট বেলায় যেই ভুতকে ভয় পায়, সেই ভুত আজীবনের জন্য মাথায় বাসা বাঁধে, ব্লগে আসলেও ঐ জ্বীনভুতেরা মাথার উপর বসে থাকে, এবং ব্লগে ঘুরে বেড়ায়।

আমেরিকার বাচ্চারা আজীবন হালুইন করার পর, কলেজে গেলে উহা নিয়ে আর আগের মতো গল্প করে না, উহাকে ধর্মের অংশ করে না, উহা বাচ্চাদের দখলে, বাচ্চাদের ভুবনে থেকে যায়, আমেরিকান ব্লগারদের জন্য উহা আর বিষয় হয়ে থাকে না। আমাদের ব্লগে একজন জ্বীনের কথা লিখলে, বাকীদেরও নিজস্ব পালিত জ্বীনের কথা মনে পড়ে যায়। একটা ভালো দিক হলো, এই গল্পগুলো মিথ্যা, কিংবা এনালাইটিক্যাল ভাবনার অভাব মাত্র।

আসলে, ছোটখাট একটা সমস্যা কিন্তু আছে: যেসব মানুষের ভাবনায় বস্তু ও বিষয় সম্পর্কে লজিক্যাল কারণ, এনালাইটিক্যাল ব্যাখ্যা নেই, তারা আমাদের চারিপাশের বিশ্ব সম্পর্কে পরিস্কার ধারণা রাখেন না; আশপাশের অনেক কিছুই এঁদের কাছে রহস্যময় মনে হয়; ফলে, রূপকথাও এদের কাছে আসল ঘটনা বলে মনে হতে পারে। আমাদের বিশ্বে যা আছে, যা ঘটছে, সবকিছুর ব্যাখ্যা আছে; কিন্তু অনেক কিছুর ব্যাখ্যা বেশ জটিল, সবাই এগুলো পুরোপুরি আয়ত্ব করতে পারেন না; অনেক সময়, অনেক জাতির বড় অংশ মানুষের এনালাইটিক্যাল ক্ষমতা খুবই কম, তখন পুরো জাতি পেছনে পড়ে যায়; ইয়েমেন ও সিরিয়ার যুদ্ধ আসলে এই ২ দেশের মানুষের এনালাইটিক্যাল ভাবনার অভাবের কারণে ঘটছে; ইয়েমেনের বেশীরভাগ লোকদের গল্পগুজবে জ্বীন একটি বড় বিষয়।

মন্তব্য ৪৯ টি রেটিং +৪/-০

মন্তব্য (৪৯) মন্তব্য লিখুন

১| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৩৩

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন:
বিশ্বাস করলে কোন সমস্যা নাই।

এগুলো মূলতঃ বিনোদনের একটা উপাদান হিসেবে ব্যবহৃত হতে পারে ।
এছাড়া এর তেমন কোনো ভিত্তিও নেই ।
উপযোগিতা ও নেই।
এগুলি ছেলেভুলানো রূপকথা হিসেবে ব্যবহার করা চলে।

২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৪১

চাঁদগাজী বলেছেন:



যারা এগুলো বিশ্বাস করছে, মিথ্যা বা বেকুবী গল্প করে বেড়াচ্ছে, তাদের মানসিকতা ও বুদ্ধিমত্তা বাচ্চাদের সমস্তরে থেকে যাচ্ছে।

২| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৪১

ডার্ক ম্যান বলেছেন: ব্লগেও মাঝে মাঝে জীন পরীর আসর বসে ।
আন্ধা হাফেজ এর নাম নিশ্চয় শুনেছেন

২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৪৩

চাঁদগাজী বলেছেন:


না, আমি আন্ধা হাফেজ'এর নাম শুনিনি।

৩| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৪৫

নূর মোহাম্মদ নূরু বলেছেন:

এসবে বিশ্বাস করলেও ক্ষতি না্ই আবার
বিশ্বাস করলেও ক্ষতি নাই।
তবে যাকে বিশ্বাস করা আবশ্যক তাকে
বিশ্বাস না করলে পরজনমে ভয়াবহ শাস্তি
পেতে হবে। সুতরাং তাকে যেন ভুলে না যাই।

২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৫২

চাঁদগাজী বলেছেন:


বিশ্বাস করলে অসুবিধা নেই, এতে বুদ্ধিমত্তাটা মাপা হয়ে যায়।

৪| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৪৭

মিরোরডডল বলেছেন:



মানুষ যখন ভুত-প্রেত, জিন-পরী নিয়ে ব্যবসা করে, ওটা একটা সমস্যা ।
আবার যখন ক্রাইম করে, জিনের ওপর দিয়ে চালিয়ে দেয়, এখানেও সমস্যা আছে ।
মানুষের কোনও অ্যাকশন যখন অন্য কারো ক্ষতির কারণ হয়, তখন অবশ্যই সেটা একটা সমস্যা ।

এর বাইরে কে কি বিশ্বাস করলো কি করলো না, হু কেয়ারস !!!




২৯ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৫৬

চাঁদগাজী বলেছেন:


মানুষ যেই লেভেলের বুদ্ধিমত্তার কারণে জ্বীনপরীকে বিশ্বাস করছেন, ঐ লেভেলের বুদ্ধিমত্তাটা সমাজের জন্য অপ্রয়োজনীয়; একটা জাতি যদি বেশী পরিমাণ গার্বেজ বহন করে, উহার চলাটা শ্লো হয়ে যায়।

৫| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ৯:৫০

সপ্তম৮৪ বলেছেন: নাই তাই খাচ্ছ

২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৪৭

চাঁদগাজী বলেছেন:


যত জাতি জ্বীনপরী, ভুতপেত্নী বিশ্বাস করে, ওদের মাঝে জ্ঞানী মানুষের সংখ্যা কম।

৬| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:১১

রাশিয়া বলেছেন: নাহ। জ্বীন পরী, দৈত্যদানব, ভূতপ্রেতে বিশ্বাস করলে কোন সমস্যা নেই। কিন্তু আল্লাহ-খোদায় বিশ্বাস করলে, নামআয রোযা করলে, হজ্বে গিয়ে সৌদি সরকারের কাছে টাকার বস্তা উজাড় করলে বা নিজ গাঁটের পয়সা খরচ করে কুরবানি দিলে বিরাট সমস্যা আছে।

২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৪৯

চাঁদগাজী বলেছেন:


বাংগালীদের শিক্ষিতদের মাঝে বেশীরভাগেরই এনালািটিক্যাল জ্ঞান কম; আপনি তাদের একজন।

৭| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:১৬

নুরুলইসলা০৬০৪ বলেছেন: বিশ্বাসের জন্য যুক্তি প্রমানের প্রয়োজন হয় না।আর যে যুক্তির প্রয়োগ জানে তার বিশ্বাসের দরকার পরে না।এসবে বিশ্বাস না করলে যে কিতাবটাই মিথ্যে হয়ে যায়।সমাজ যখন কুসংস্কার মুক্ত হবে তখন আমরাও ভুত প্রেত নিয়ে উৎসব করব,কিন্ত বিশ্বাস করবো না।

২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৫১

চাঁদগাজী বলেছেন:


পশ্চিমের মানুষ রূপকথা ও বাস্তব পৃথিবীকে আলাদা করতে সমর্থ হয়েছে; ওদের এনালাইটিক্যাল জ্ঞান ওদেরকে ভালো থাকতে সাহায্য করছে।

৮| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:২০

পগলা জগাই বলেছেন: জ্বীন-ভূতের গল্প আমাদের দেশের গুলিই সেরা মনে হয়!!

২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৫২

চাঁদগাজী বলেছেন:


পশ্চিমে ভুতপেত্নীর মুভি করে বিলিয়ন ডলারের ব্যবসা করছে।

৯| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৪৪

শায়মা বলেছেন: নো সমস্যা। ভালো ভালো ভূতের গল্প লেখা যায়। ফেইরী টেইল বা রুপকথা!!! :)

২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৫৪

চাঁদগাজী বলেছেন:


লিখছেন; কিন্তু লেখক পশ্চিমের লেখকদের এনালাইটিক্যাল জ্ঞান আছে, তারা ইহাকে প্রমাণ করার জন্য বাইবেলার সাহায্য নিচ্ছে না।

১০| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৪৭

ডার্ক ম্যান বলেছেন: জীন ভুতের কাহিনী দেখেন টেরর বাবা

২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১০:৫৬

চাঁদগাজী বলেছেন:



সে 'সুরাহ জ্বীন' মুখস্হ না করে ব্যবসা করছিলো।

১১| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১১:০৩

শায়মা বলেছেন: চাঁদগাজী ভাইয়া ডার্কম্যানের টেরোরবাবা ধরবে কিন্তু!!! সাবধান।

৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১২:৩৭

চাঁদগাজী বলেছেন:



বেশীরভাগ ব্লগারই বিশ্বাস করেন যে, জ্বীনপরী আছে, ইহা জাতির জন্য অশুভ খবর।

১২| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১১:২০

রাজীব নুর বলেছেন: এগুলো বিশ্বাস করার কোনো কারন নেই। এযুগে আধুনিক মানুষেরা এসব বিশ্বাস করে না। আমিও বিশ্বাস করি না।

৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১২:৪০

চাঁদগাজী বলেছেন:



সমাজের একটা অংশ বিশ্বাস করছে, এই মানুষগুলো সমাজের জন্য ভালো কিছু করার মতো বুদ্ধিমান নন।

১৩| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১১:২১

রাজীব নুর বলেছেন: ডার্ক ম্যান বলেছেন: ব্লগেও মাঝে মাঝে জীন পরীর আসর বসে ।
আন্ধা হাফেজ এর নাম নিশ্চয় শুনেছেন

আপনি কি হুমায়ূন আহমেদ এর 'দেয়াল' উপন্যাসের আন্ধা হাফেজ এর কথা বলছেন? যে শেখ মুজিবকে হত্যার আগে দোয়া নিতে গিয়েছিলেন?

৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১:১১

চাঁদগাজী বলেছেন:



ব্লগাররা হলেন বাংলার শিক্ষিতদের প্রগ্রেসিভ অংশ, উহার অবস্হাই ভয়ংকর।

১৪| ২৯ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১১:২৪

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: জ্বীনের ঘটনা অনেক অনুসন্ধিৎসু মানুষের মনে টানটান উত্তেজনা এনে দেয় সত্যি এ বিষয়ে আমার এতটা আগ্রহ বা ভীতি নেই। এখন ভাবছি বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে।৭ লাখ মানুষ পানিবন্দি এ অবস্থায় করোনা ভয়াবহ বিপর্যয় ডেকে আনতে পারে। তাছাড়া কুরবানী দেয়ার জায়গা টুকু অনেকেই পাবে না। ইতিমধ্যেই ৯৩ জনের প্রাণহানি হয়েছে বণ্যায়।

৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১:১৪

চাঁদগাজী বলেছেন:



৫০ বছরেও বন্যা নিয়ন্ত্রণের সঠিক পদক্ষেপ নিতে পারেনি।

১৫| ৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১২:১৮

শূন্য সারমর্ম বলেছেন: জ্ঞানীরা হয়তো এসব ব্যাপারস্যাপার মুচকি হেসে এড়িয়ে যায়।

৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১:১৩

চাঁদগাজী বলেছেন:


ইয়েমেনের ও সিরিয়ার শিক্ষিতরাও মুচকি হাসছেন হয়তো, দেশ জাহান্নামে পরিণত হয়েছে।

১৬| ৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ৩:৩০

অনল চৌধুরী বলেছেন: ইয়েমেন -সিরিয়ার যুদ্ধ বাধিয়েছে সন্ত্রাসী খুনে-ডাকাত জঙ্গী এ্যামেরিকা,যাকে আপনি প্রতিমাসে কর দেন আর তার চামচা সৌদি।

ডার্কম্যান,ওটা টেরর বাবা না,ট্যারট বাবা,যাকে সৃষ্টি করেছিলো কিবরিয়া।

৩০ শে জুলাই, ২০২০ ভোর ৪:২০

চাঁদগাজী বলেছেন:



আপনি ঢাকার কুপে থাকেন।

১৭| ৩০ শে জুলাই, ২০২০ দুপুর ১২:৪৮

রাজীব নুর বলেছেন: দেশের দূর্নীতি নিয়ে একটা পোষ্ট দেন না প্লীজ।

৩০ শে জুলাই, ২০২০ বিকাল ৩:১১

চাঁদগাজী বলেছেন:


দুর্নীতি হচ্ছে বাংগালী জাতির জীবনধারা, ইহাকে নিয়ে লেখার মতো কিছু আছে?

১৮| ৩০ শে জুলাই, ২০২০ দুপুর ১:০৮

নতুন বলেছেন: যারা জ্বীন ভুতে বিশ্বাস করে তারা সব কিছুই বিশ্বাস করতে পারে

তারা ধান্দাবাজের পাল্লায় বেশি পরে।

তারা তখন কপালে কস্ট ছিলো তাই বিশ্বাস করে মেনে নেয়।

তারা বোকার স্বর্গে বাস করে।

৩০ শে জুলাই, ২০২০ বিকাল ৩:১২

চাঁদগাজী বলেছেন:


দেশে অশিক্ষিত মানউষ আছেন, তারপর আছেন শিক্ষিত অপদার্থ মানুষ।

১৯| ৩০ শে জুলাই, ২০২০ দুপুর ১:৩৯

পুলক ঢালী বলেছেন: জ্বীনের স্বীকৃতি ধর্মে আছে। খৃশ্চিয়ান ধর্মে শয়তানের কথা বলা হয়েছে। ইসলাম ধর্মে জ্বীনকে আগুনের তৈরী বলা হয়ে থাকে। হিন্দু ধর্মে জন্মান্তরের কথা এবং প্রেত সাধনা বা তান্ত্রিকইজম এর কথা আছে।
নিরাকার সৃষ্টি কর্তাকে বা ধর্মকে বিশ্বাস করতে হয়, তাই জ্বীন ভূত প্রেত বা পেত্নীকে বিশ্বাস করতেই হবে।

মানুষ আগে সমুদ্রকে দেবতা মানতো, কিন্তু জ্ঞানের উন্মেষের ফলে যখন নৌকা আবিস্কার হলো, তখন দেখা গেল মানুষ সমুদ্রকে জয় করেছে এবং ফলাফল হলো অবশ্যম্ভাবী ভাবে সমুদ্র দেবতার মর্যাদা হারায়।

মানুষ এখন ডিএনএ পড়তে পারে রি-রাইট করে জিন এডিটিং করতে পারে ।

Scientists have synthesized a bacterial genome with just the genes necessary for life. An artificial bacterial genome with the smallest number of genes needed for life has been created in a lab.

আগুন আবিষ্কারের পথ ধরে সভ্যতার আজকের এই বিকশিত রূপ। ঠিক একইভাবে এই জিন তৈরীর পথ ধরে হয়তো পরিপূর্ণ প্রান বা জীব তৈরী হয়ে যাবে, তখন হয়তো নিরাকার স্রষ্টা প্রশ্নের মুখে পড়তে পারেন (তখন, "ধর্মগন্থে আগে থেকেই এমন কথা বলা আছে এমন বক্তব্য হালে পানি পাবে না" )।
যতদিন এমন পরিস্থিতির উদ্ভব না হচ্ছে, ততদিন আসুন আমরা গভীর নিষ্ঠা নিয়ে ধর্ম পালন করি, জ্বীন ভূত প্রেত নিয়ে জীবন যাপন করি, লজিক এনালাইসিস এগুলো আপাততঃ শিকেয় তোলা থাক।

৩০ শে জুলাই, ২০২০ বিকাল ৩:০৯

চাঁদগাজী বলেছেন:


জ্বীনভুত, শয়তান ইতয়াদি বিশ্বাস করার জন্য মানুষের ভাবনার মাঝে কিছু ঘাটতি থাকতে হয়, সেই ঘাটতি মুসলমান এলাকাগুলো আজকের বিশ্বে পেছনের সারিতে নিয়ে গেছে।

২০| ৩০ শে জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:০২

শুভ্রনীল শুভ্রা বলেছেন: কী আশ্চর্য! আমি কখনো জ্বীনপরী, দৈত্যদানব, ভুতপেত্নী কিছুই দেখতে পারলামনা। নিচের ভিডিওটি নিয়ে আপনার মন্তব্য চাই। এটা কি সত্যি নাকি সাজানো?

sacred riana

৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১১:০৫

চাঁদগাজী বলেছেন:


দেশের অবস্হা দেখলে, মনে হয় যে, বেশীর বাংগালী জ্বীনভুত দেখেছেন

৩০ শে জুলাই, ২০২০ রাত ১১:১১

চাঁদগাজী বলেছেন:



এগুলো 'সো বিজনেসের' অংশ।

২১| ৩১ শে জুলাই, ২০২০ রাত ৩:০৭

অনল চৌধুরী বলেছেন: আপনি ঢাকার কুপে থাকেন- এজন্য গর্বিত যে খুনে ডাকাতদের মানুষ মারতে টাকা দেই না।
পড়েন ,নিজের নামটাও এই তালিকায় যেকোনো সময় আসতে পারেেএটা জেনে রাখেন।যুক্তরাষ্ট্রে প্রতি মিনিটে করোনায় একজনের মৃত্যু হচ্ছে
এখনো সন্ত্রাসী এ্যামেরিকা প্রীতি যায়নি!! নিজেকে অমর ভাবেন নাকি ?
ভালোভাবে পড়েন American-led intervention in the Syrian Civil War

৩১ শে জুলাই, ২০২০ ভোর ৪:১৫

চাঁদগাজী বলেছেন:



সিরিয়া কোন মহাদেশে, ম্যাপে খুঁজে পাবেন তো?

২২| ০৫ ই আগস্ট, ২০২০ দুপুর ১:৪৯

আমি সাজিদ বলেছেন: আমি তো দৈত্য বিশ্বাস করি, এই যে একটা বিশাল দৈত্য এতো বছর ধরে চ্যাতনার গল্প বলে দেশটাকে শেষ করে দিচ্ছে।

০৫ ই আগস্ট, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:২৬

চাঁদগাজী বলেছেন:


আপনি কি শেখ হাসিনার কথা বলছেন?

শেখকে হত্যার পর, কি ঘটার সম্ভাবনাগুলো আপনার ভাবনায় আসে?

২৩| ০৫ ই আগস্ট, ২০২০ দুপুর ২:২১

জুন বলেছেন: The Conjuring নামে একটা হরর ম্যুভি মনে হয় কয়েকবার দেখলাম এই লকডাউনে। এর মনে হয় একাধিক পর্ব আছে । স্বামী স্ত্রী দুজন বিভিন্ন মানুষের বাসা থেকে ভুত প্রেত তাড়ায় বাইবেল পড়ে আর ক্রস হাতে নিয়ে। সিনেমা দেখে আমার যা ধারণা হলো তা হলো আমেরিকার নির্জন নিরিবিলি সব বাসাগুলোতেই মনে হয় ভুত আছে। যারা ঐসব বাসার বাসিন্দা তারা সবাই প্রাপ্ত বয়স্ক। ভুত তাড়ানিরাও তাই। হ্যালোইন এর বয়স না তাদের।

০৫ ই আগস্ট, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:২৮

চাঁদগাজী বলেছেন:



আমেরিকায় রূপকথার মুভিই বেশী জনপয্রিয়।

২৪| ০৫ ই আগস্ট, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:৫০

আমি সাজিদ বলেছেন: না আমি উনাকে মিন করি নাই। উনার প্রতি একটা রেস্পেক্ট আছে৷ আমি মিন করেছি আওয়ামী লীগের ছায়ায় যারা লুটপাট করেছেন তাদের৷ প্রধানমন্ত্রী যতোটুক পারেন একটা আলাদা ইমেজ বানিয়েছেন নিজের, যেটা তাকে পজেটিভলি রিপ্রেজেন্ট করে। কিন্তু উনি ছাড়া আওয়ামী লীগের বাকিদের প্রতি বিশ্বাস আর আস্থার জায়গা কোথায় সেটাও প্রশ্ন।

০৫ ই আগস্ট, ২০২০ রাত ৮:২১

চাঁদগাজী বলেছেন:


উনিই আওয়ামী লীগ, আওয়ামী লীগের এই অবস্হার জন্য উনিই দায়ী; ৪০ বছর সভাপতি থেকে উহাকে দুষ্টদের আখড়ায় পরিণত করেছেন।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.