নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

আমি বিপ্লবী ধারায় লিখতে পছন্দ করি। এটাই আমার প্যাশন।

গিলগামেশের দরবার

সামুদ্রিক বাস্তুতন্ত্র গবেষক (দক্ষীন চীন সাগর)

গিলগামেশের দরবার › বিস্তারিত পোস্টঃ

ছবি কথা বলে-২

১৬ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ বিকাল ৩:২১

পৃথিবীর ইতিহাসে সবচেয়ে শক্তিশালী ফটোগ্রাফি গুলো একবার হলেও আপনাকে ভাবাবে। মনে করিয়ে দেবে আমরা এই গ্রহে কত ক্ষুদ্র। আমাদের অস্তিত্ব কত ছোট।

আরো ভাবাবে আমরা বাঁচি কিসের জন্য? ঈশ্বর কোথায় থাকে? স্বপ্ন কেন ভেঙ্গে যায়? মানুষ কি? যুদ্ধ কেন? আসলেই ছবিগুলা খুবই হৃদয়স্পর্শী।

সময় থাকলে ছবি গুলা একবার দেখবেন। আশা করি চিন্তার খোরাক পাবেন।

ছবিগুলার বর্ননা ক্যাপশনে দেয়া আছে।

সদ্য ভাই হারা।
কার্টেসিঃ Nhat V. Meye

মাতাল বাবা ও ছেলে।
কার্টেসিঃ imgur.com

ভালোবাসার জুটি।
কার্টেসিঃ Taslima Akhter

সানসেট অন মারস।
কার্টেসিঃ nasa.gov

আমি ধুমপায়ী। (শিশু ধুমপায়ী, পেরিপাইগন, দক্ষীন ফ্রান্স)
কার্টেসিঃ Jesco Denzel

নার্গিসের কামড় (রেঙ্গুন, মিয়ানমার) ।
কার্টেসিঃ Brian Sokol

মালিকের ঘর ও কবর। (রিও ডি জেনিরো, ব্রাজিল, ২০১১)
কার্টেসিঃ Vanderlei Almeida / Getty Images

"বাবা একটু অপেক্ষা কর" বা "ওয়েট ফর মি ড্যাডি"। (নিউ ওয়েস্টমিনিস্টার, কানাডা, ১ অক্টোবর ১৯৪০)
কার্টেসিঃ Claud Detloff

যুদ্ধ বন্ধু।
রাশিয়ান ভেটেরান এর ২য় বিশ্বযুদ্ধকালীন সময়ে ব্যবহার করা ট্যাংকের সাথে পুর্নমিলন।
কার্টেসিঃ englishrussia.com

এখনো খুজি।
কার্টেসিঃ reddit.com

মন্তব্য ৮ টি রেটিং +০/-০

মন্তব্য (৮) মন্তব্য লিখুন

১| ১৬ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ বিকাল ৪:২৯

আরণ্যক রাখাল বলেছেন: "বাবা একটু অপেক্ষা কর" বা "ওয়েট ফর মি ড্যাডি"। (নিউ ওয়েস্টমিনিস্টার, কানাডা, ১ অক্টোবর ১৯৪০)
সত্যিই হৃদয় বিদারক

২| ১৬ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ বিকাল ৪:৩৪

জাকির বালী বলেছেন: মাতাল বাবা আর ছেলে- অসাধারণ কম্পজিশন।

৩| ১৬ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ বিকাল ৪:৩৬

সুমন কর বলেছেন: সবগুলোই হৃদয় বিদারক ! শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ।

১৬ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ সন্ধ্যা ৬:৪৬

গিলগামেশের দরবার বলেছেন: দেখার জন্য ধন্যবাদ!

৪| ১৬ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ বিকাল ৫:০২

জে আর সিকদার বলেছেন: হৃদয় বিদারক , ভালোবাসার জুটি ।

৫| ১৬ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ বিকাল ৫:৩৩

একটি পেন্সিল বলেছেন: হৃদয় ছুয়ে যাওয়া ছবি।

৬| ১৭ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ রাত ২:৪৬

রক্তিম দিগন্ত বলেছেন: সবগুলো ছবির ভিতরেই বিশেষ বিশেষ অর্থ লুকিয়ে আছে। 'ওয়েট ফর মি ড্যাডি' ছবিটা আসলেই হ্বৃদয়ে ভালভাবে আঘাত করার মত ছবি।

হ্যাভ ইউ সিন মি - এই ছবির তাৎপর্য বুঝলাম না। গুগোল সার্চ করেও তেমন কিছু পেলাম না। এটার মত আরো অনেকের ছবিই পেলাম নেটে।

১৮ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৬ বিকাল ৩:৩৩

গিলগামেশের দরবার বলেছেন: বাবা-মা তাদের এক মাত্র হারিয়ে যাওয়া মেয়েকে ৫০ বছরের বেশি সময় ধরে খুঁজে চলেছে। প্রতি বছরেই তারা পত্রিকায় বিজ্ঞাপন দেয় মেয়েকে ফিরে পাবার আশায়। ৫৩ বছর বয়সে তাদের মেয়ের চেহারা কেমন হবে তা গ্রাফিক্সের সাহায্যে বিজ্ঞাপনের সাহায্যে পত্রিকায় ছেপেছে। এখনো তারা আশা করছে তাদের মেয়ে একদিন ফিরে আসবে।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.