নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

ব্লগিং করার মতো জ্ঞান নেই। পড়তে মন চাই কিন্তু নেট অার ফোন কাছে থাকলে সে ইচ্ছে হারিয়ে যাই। আমি খুব অলস। কিন্তু অনলাইনে অক্লান্ত। এটাকে কি বলবেন জানিনা, অনেকে নেশা বলে...

সামিউল ইসলাম বাবু

আত্মনিয়ন্ত্রণ + পরিকল্পনা + পরিশ্রম + মুখ বন্ধ রাখা = সফলতা

সামিউল ইসলাম বাবু › বিস্তারিত পোস্টঃ

কবি গোলাম মোস্তফা

০৭ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ভোর ৬:৫৩

ইলা মিত্র
লালান শাহ
বাঘা যতিন

ঝিনাইদহ জেলার শৈলকুপা উপজেলার মনোহরপুর গ্রামে ১৮৯৭ সালে বাংলা সাহিত্যের প্রখ্যাত কবি গোলাম মোস্তফা জম্মগ্রহণ করেন।

কবি গোলাম মোস্তফার সংক্ষিপ্ত পরিচয়ঃ

নামঃ গোলাম মোস্তফা
পিতাঃ কাজী গোলাম রাব্বানী
মাতাঃ বিবি শরীফুন্নেসা।
স্ত্রীঃ
পিতামহঃ কাজী গোলাম সরওয়ার। (পিতা এবং পিতামহ তাঁরা ছিলেন সাহিত্যানুরাগী-ফারসী ও আরবী ভাষায় সুপন্ডিত। তাঁর তিন পুত্রের মাঝে একজন হলেন বিখ্যাত পাপেটনির্মাতা ও চিত্রশিল্পী মুস্তফা মনোয়ার এবং সাম্প্রতিককালের অস্কারজয়ী বাংলাদেশী নাফিস বিন জাফর তাঁর নাতি।)

শিক্ষাঃ কবি শৈলকুপা হাইস্কুল থেকে ১৯১৪ সালে ম্যাট্রিকুলেশন, দৌলতপুর কলেজ থেকে ১৯১৬ সালে আই,এ এবং কলকাতার রিপন কলেজ থেকে ১৯১৮ সালে বি,এ পাশ করেন।

কর্মজীবনঃ ১৯২০ সালে ২৪ পরগনা জেলার ব্যারাকপুর সরকারী হাইস্কুলে সহকারী শিক্ষকরুপে তাঁর কর্মজীবন শুরু করেন। পরে ডেভিড হেয়ার ট্রেনিং কলেজ থেকে বি,টি পাশ করেন এবং......
প্রধান শিক্ষক পদে উন্নীত হয়ে ১৯৪৬ সালে ফরিদপুর জেলা স্কুলে যোগদান করেন। ১৯৫০ সালে তিনি চাকুরী হতে অবসর গ্রহণ করেন। ১৯৪৯ সালে পূর্ব পাকিস্তান সরকার গঠিত ভাষা সংস্কার কমিটির সচিব ছিলেন।

সাহিত্যে অবদানঃ গীত রচনা, কাব্য, উপন্যাস, জীবনী, অনুবাদসহ সাহিত্যের প্রায় সকল শাখায় তাঁর স্বছন্দ পদচারণা ছিল। ১৯১৩ সালে দশম শ্রেণীর ছাত্র থাকাকালে আদ্রিয়ানোপল উদ্ধার' কবিতাটি প্রকাশিত হয়।

কাব্য গ্রন্থঃ কাব্য-রক্তরাগ (১৯২৪), খোশরোজ (১৯২৯), কাব্য কাহিনী (১৯৩২), সাহারা (১৯৩৬), হাসনাহেনা (১৩৩৪), তারানা-ই-পাকিস্তান (১৯৪৮), বনি-আদম (১৯৫৮); উপন্যাস-রুপের নেশা (১৩২৬), ভাঙ্গাবুক (১৩২৮), একমন এক প্রাণ; জীবনী-বিশ্বনবী (১৯৪২) ; ইসলাম বিষয়ক গ্রমহ-ইসলাম ও জেহাদ (১৯৪৭), ইসলাম ও কমিউনিজম (২য় সং -১৯৪৯), মরু দুলাল; প্রবন্ধ পুস্তক-আমার চিন্তাধারা (১৯৬২) ; অনুবাদগ্রন্থ-মুসাদ্দাস-ই-হালী (১৯৪৯), মুরু দুলাল; প্রবন্ধ পুস্তক-আমার চিন্তাধারা (১৯৫৮) শিকওয়া ও জওয়াব-ই-শিকওয়া (১৯৬০), জয়পরাজয়। এছাড়া গীতি সঞ্চয়ন (১৯৬৮) এবং গোলাম মোস্তফা কাব্য গ্রন্থাবলী (১৯৬০) বিশ্বনবী' গ্রন্থখানি গদ্য সাহিত্য তাঁর শ্রেষ্ঠ অবদান।

কাব্যের বৈশিষ্ট্যঃ তাঁর কাব্যের বৈশিষ্ট্য হল সহজ সাবলীল শিল্পসম্মত প্রকাশ ও ছন্দ লালিত্য। তাঁর কাব্যে মুসলিম জাতীয়তাবাদী চেতনা প্রকাশ পায়। তিনি গীতিকার ও গায়ক ছিলেন। তাঁর নিজের সুরারোপিত বেশ কয়েকটি গানের রেকর্ডও পাওয়া যায়।

সম্মাননা/পদকঃ ১৯৫২ সালে যশোর সাহিত্য সংঘ কাব্য সুধাকর' ও ১৯৬০ এ পাকিস্তান সরকার সিতারা-ই-ইমতিয়াজ' উপাধি দেয়।

নাগরিকত্বঃ ব্রিটিশ ভারতীয় (১৮৯৭-১৯৪৭),
পাকিস্তানি(১৯৪৭-১৯৬৪)
শিক্ষা প্রতিষ্ঠানঃ কলকাতা রিপন কলেজ
উল্লেখযোগ্য পুরস্কারঃ সিতারা ই ইমতিয়াজ
প্রেসিডেন্ট মেডেল

মৃত্যুঃ ১৯৬৪ সালের ১৩ অক্টোবর ঢাকায় মৃত্যুবরণ করেন।



তথ্য সূত্র ও ছবিঃ ইন্টারনেট (গুগোল, ফেসবুক ও বেশতো)


মন্তব্য ১৮ টি রেটিং +২/-০

মন্তব্য (১৮) মন্তব্য লিখুন

১| ০৭ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ সকাল ৭:৩৭

কাউয়ার জাত বলেছেন: আমার পছন্দের একজন কবি।
'বিশ্বনবী' বাংলা ভাষার শ্রেষ্ঠ একখানি সীরাতগ্রন্থ।

১৪ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ভোর ৬:৪৫

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন:
পাঠ ও মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ।

অাপনার প্রিয় কবি জেনে ভালোলাগলো।

২| ০৭ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ সকাল ১০:৪১

রাজীব নুর বলেছেন: সুন্দর পোষ্ট।

১৪ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ভোর ৬:৪৬

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন: ধন্যবাদ ভাই

শুভেচ্ছা জানবেন।

৩| ০৭ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ সকাল ১১:৩২

আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম বলেছেন: কবি গোলাম মোস্তফা সর্বাধিক পরিচিত তাঁর 'বিশ্বনবী' গ্রন্থের জন্য।

১৪ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ভোর ৬:৪৮

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন:
পাঠ ও মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ ভাই।

অাসলে উনার কবিতাগুলাও অনেক ভালোলাগে

৪| ০৭ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ দুপুর ২:৩৮

মোঃ মাইদুল সরকার বলেছেন: ওনার লেখা ভাল লাগে পড়তে।

১৪ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ভোর ৬:৪৮

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন:
পাঠ ও মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ।

অাপনার প্রিয় কবি জেনে ভালোলাগলো

৫| ০৮ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ রাত ৮:৩৪

মলাসইলমুইনা বলেছেন: হ্যা এটা ঠিক কবি গোলাম মোস্তফার প্রধান কাজই হয়তো "বিশ্বনবী" |এক সময় এটাই ছিল রাসূলের (সাঃ) অন্যতম নির্ভরযোগ্য জীবনী বাংলায় (তখন এতো অনুবাদ পাওয়া যেত না )| আমি বিশ্বনবী পড়েছি স্কুল পড়ার সময় | কিন্তু গোলাম মোস্তফার সুন্দর সুন্দর কবিতাগুলো ছিল স্কুলে আমাদের খুব প্রিয় | কবি গোলাম মোস্তফাকে নিয়ে আপনার লেখায় ভালো লাগা |

১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৭ রাত ৯:৪১

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন:

তথ্যবহুল মন্তব্যে অনুপ্রাণিত হলাম।

পাঠ ও মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ। শুভেচ্ছা নিরন্তর।

৬| ১০ ই ডিসেম্বর, ২০১৭ ভোর ৫:৩২

অলিউর রহমান খান বলেছেন: তথ্যবহুল পোষ্টের জন্য ধন্যবাদ।
সুন্দর পোষ্ট।

১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৭ রাত ৯:৪৩

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন: অাপনাকেও ধন্যবাদ অলিউর রহমান খান।

শুভেচ্ছা নিরন্তর।

৭| ১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৭ রাত ১:৩৯

শামচুল হক বলেছেন: কবি গোলাম মোস্তফাকে নিয়ে পোষ্ট দেয়ার জন্য ধন্যবাদ।

১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৭ রাত ৯:৪৪

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন: পাঠ ও মন্তবের জন্য ধন্যবাদ শামচুল হক

শুভকামনা জানবেন।

৮| ১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৭ রাত ৯:৪৭

কাছের-মানুষ বলেছেন: চমতকার কবি গোলাম মোস্তফাকে নিয়ে তথ্যপূর্ন্য পোষ্টের জন্য।

ভাললাগার মত একটা পোষ্ট। এই সিরিজটা চলতে থাকুক।

২০ শে ডিসেম্বর, ২০১৭ ভোর ৬:২৩

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন: কাছের মানুষ অনুপ্রাণিত হলাম।

পাঠ ও মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ।

শুভেচ্ছা নিরন্তর।

৯| ০৭ ই জানুয়ারি, ২০১৮ রাত ৮:২২

খায়রুল আহসান বলেছেন: যতটুকুই লিখেছেন, পড়ে ভাল লাগলো। তবে, আরেকটু বিস্তৃত কলেবরে হলে আরো ভাল লাগতো।
নিঃসন্দেহে, আবুহেনা মোঃ আশরাফুল ইসলাম যেমনটি বলেছেন, কবি গোলাম মোস্তফা সর্বাধিক পরিচিত তাঁর 'বিশ্বনবী' গ্রন্থের জন্য। তবে এর বাইরেও তিনি কবি ছাড়াও একজন শ্রেষ্ঠ প্রবন্ধকার ছিলেন। মনে পড়ে,আমার স্কুল জীবনে প্রমত্তা পদ্মা নিয়ে তাঁর লেখা একটি প্রবন্ধ আমাদের পাঠ্যসূচীতে ছিল। খুবই চমৎকার ভাষায় লেখা ছিল সেটা। পড়তে পড়তে প্রায় মুখস্থই করে ফেলেছিলাম।
পোস্টে ভাল লাগা + + রেখে গেলাম।

০৯ ই জানুয়ারি, ২০১৮ রাত ১২:১৫

সামিউল ইসলাম বাবু বলেছেন: অান্তরিক শুভেচ্ছা জানবেন শ্রদ্ধেয়।

অাসলে তথ্য উপাত্ত, সময় এবং জ্ঞ ানের সিমাবদ্ধতার কারণে হয়ে ওঠেনি।

অামার ব্লগবাড়িতে নিয়মিত অাসার দাওয়াত রইলো।

ব্যস্ততার কারণে নিয়োমিত হতে পারছিনা।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.