নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

ভাগ্যক্রমে আমি এই সুন্দর গ্রহের এক বাসিন্দা! তবে মাঝেমধ্যে নিজেকে এলিয়েন মনে হয়। তবে বুদ্ধিমান এলিয়েন না কোন আজব গ্রহের বোকা এলিয়েন!

নূর আলম হিরণ

ভাগ্যক্রমে আমি এই সুন্দর গ্রহের এক বাসিন্দা! তবে মাঝেমধ্যে নিজেকে এলিয়েন মনে হয়। তবে বুদ্ধিমান এলিয়েন না কোন আজব গ্রহের বোকা এলিয়েন!

নূর আলম হিরণ › বিস্তারিত পোস্টঃ

একজন সম্রাট ও জে.কে শামীম নমুনা মাত্র।

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:৩১


দেশে যতটুকু উন্নতি হয়েছে, জিডিপি বেড়েছে এর কারণ হচ্ছে বড় বড় অবকাঠামো প্রজেক্ট গুলো হাতে নেওয়ায়। এসব অবকাঠামো প্রজেক্ট গুলোর কারণে দেশের মোট সম্পদ বেড়েছে কিন্তু প্রান্তিক পর্যায়ের যে মানুষগুলো আছে তাদের সম্পদ বাড়েনি। এখনো অনেক মানুষ আছে যাদের থাকার মত ঘর নেই, পুষ্টিকর খাওয়া খেতে পারেনা, বাচ্চাদের প্রাইমারি স্কুল থেকে হাইস্কুলে ভর্তি করাতে পারে না। এগুলো সার্বিক উন্নয়নের অবস্থা নয়।

শেখ হাসিনা তার দলের দুই তিনজনকে একটু বাজিয়ে দেখেছেন, এদের থলে থেকে যে পরিমাণ সম্পদ বের হয়েছে এগুলো থেকে আন্দাজ করা যায় কি পরিমান অর্থ, সম্পদ অলস পড়ে আছে। আপনি যেভাবেই অর্থ আয় করেন না কেন, সেগুলোকে যদি আপনি অতিরিক্ত সময় ধরে জমিয়ে রাখেন, হাত বদল না করেন তাহলে অর্থনীতিতে সুষম উন্নয়ন হবে না। যাদের কাছে অর্থ নেই তারা অর্থ উপার্জনের পথ খুঁজে পাবেনা।

জে.কে শামীম নামের একজনের কাছে যে পরিমাণ অর্থ পাওয়া গিয়েছে সেগুলো দিয়ে লক্ষ বেকারের কর্মসংস্থান সৃষ্টি করা যেত। জে.কে শামীম টাকা রাখার মত জায়গা না পাওয়ার কারণে এক পর্যায়ে স্বর্ণ কিনা শুরু করে! কি ভয়ংকর ব্যাপার চিন্তা করতে পারছেন?
আরেকজন নজরদারিতে আছে, নাম সম্রাট। নাম যেমন কাজও ঠিক তেমন, উনি নাকি প্রতিমাসে সিঙ্গাপুরের ক্যাসিনোতে চার কোটি টাকার জুয়া খেলেন। সিঙ্গাপুরের ক্যাসিনোতে জুয়া খেলা অপরাধ নয়, কিন্তু উনি যে টাকাগুলো বাইরে নিয়ে যাচ্ছে এটা খুব বড় ধরনের অপরাধ। এভাবে দেশের টাকা যখন অবৈধভাবে বাহিরে চলে যায় দেশের অর্থনৈতিক অবস্থা আস্তে আস্তে থমকে যায়।

শেখ হাসিনার নির্দেশে এইরকম অভিযান চালানোর পর থেকে আপনি দলের এমপি-মন্ত্রী, দলীয় নেতাদের কথাগুলো খেয়াল করেছেন? তারা খুব অসংলগ্ন কথাবার্তা বলা শুরু করেছে। কোন দুর্নীতি ধরা পরলে এরা জামাত-বিএনপি ঢুকিয়ে দেয়, তারেক রহমানকে টেনে আনে, হাওয়া ভবনের কথা বলে। এগুলি বলে আসলে এরা পার পেতে চায়। এদের কথা থেকে আন্দাজ করা যায় এরা সবাই অবৈধভাবে অনেক সম্পদ জমিয়েছে!
জে.কে শামীম ও সম্রাট জুয়া,চাঁদাবাজি থেকে অর্থ উপার্জন করলেও বাকি এমপি মন্ত্রীরা সরকারি আমলাদের সাথে যোগসাজশে, বিভিন্ন প্রজেক্টের বরাদ্দকৃত অর্থ থেকে অবৈধ উপার্জন করে থাকে। দেশের সাধারণ মানুষের হাতে নগদ অর্থের পরিমাণ দিন দিন কমে আসছে, এতে বুঝা যায় অবৈধভাবে উপার্জিত অর্থের সিংহভাগ দেশে থাকছে না, বাইরে পাচার হয়ে যাচ্ছে।

মন্তব্য ২০ টি রেটিং +৩/-০

মন্তব্য (২০) মন্তব্য লিখুন

১| ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:৪১

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন: মাইরা লা - - - -

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১৫

নূর আলম হিরণ বলেছেন: দেশের অর্থ এরা দুই হাতে কামিয়ে দেশের বাহিরে পাচার করে দিচ্ছে। এদের ফায়ারিং স্কোয়ার্ডে দেওয়া উচিত।

২| ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:৪৯

ভুয়া মফিজ বলেছেন: দেশের দুর্নীতির একেকটা ঘটনা চোখের সামনে আসে, আর সচকিত হয়ে ভাবি......এমন হাজারটা কাহিনী তো জানার অগোচরেই থেকে যাচ্ছে। দেশের ভবিষ্যত নিয়ে শংকিত হই। ভাবি, দেশ আসলে কোথায় যাচ্ছে?

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:২০

নূর আলম হিরণ বলেছেন: দেশের স্বাস্থ্য দিনদিন খারাপের দিকে যাচ্ছে।

৩| ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:০১

বিচার মানি তালগাছ আমার বলেছেন: মজার ব্যপার হচ্ছে যেই মাত্র শেখ হাসিনার ছায়া সরে গিয়েছে সম্রাট, জি কে শামীম বিরোধী লেখা, রিপোর্ট প্রকাশিত হচ্ছে জনকন্ঠ আর ৭১ টিভিতে। এদের সাংবাদিকরাই সবসময় বিএনপি-জামায়াতের অপপ্রচার বলে অপরাধীদের আড়াল করে। তারপরও কয়েকজনকে যদি শাস্তি দেয়া যায় অন্যরা সতর্ক হবে। বলা যায় না, রাজসাক্ষী হয়ে ২/১ জন রাঘব বোয়ালের নামও বলে দিতে পারে...

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:২২

নূর আলম হিরণ বলেছেন: এরাও রাঘব বোয়াল। এদের ধরা হবে এমন ভাবনা কখনো মাথায় আসছে! সাংবাদিকরা নীতিবহির্ভুত কাজ অহরহ করে বেড়াচ্ছে। দুর্নীতিবাজ থেকে এরাও মাসোহারা পায়।

৪| ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:০৪

চাঁদগাজী বলেছেন:




এদের হাতে বিপুল পরিমাণ টাকা চলে যাচ্ছে সরকারের ভুল নীতি, ভুল প্ল্যান ও ভুল মানুষদের বড় বড় পোষ্ট দেয়ার ফলে; বড় বড় পোষ্টে দুষ্ট মানুষ চলে যাচ্ছে দলীয় বিবেচনায়; ঘুরেফিরে শেখ হাসিনার অদক্ষতাই ধরা পড়ছে।

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:২৪

নূর আলম হিরণ বলেছেন: শেখ হাসিনা বেগম জিয়া বুদ্ধি দেখে পদ দেয় না। কে জনসভায় কত লোক উপস্থিত করাতে পেরেছে সেটা অনেক বড় ফ্যাক্ট। তবে শেখ হাসিনার জনসভায় আপাতত লোক লস্কর উপস্থিতির দরকার কম। এই সুযোগ কাজে লাগানো উচিত তার।

৫| ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:০৬

চাঁদগাজী বলেছেন:


বিএনপি-জামাতের কথা এসে যায় এইজন্য যে, শেখ সাহেবকে হত্যা করার মুলে ছিলো, এই ধরণের সিষ্টেম চালু করা: এবং জেনারেল জিয়া, জেনারেল এরশাদ, বেগম জিয়া এই সিষ্টেম চালু করে গেছেন; কিন্তু শেখ হাসিনাও তাদের সিষ্টেমকে বদলায়ে, বাবার সিষ্টেমে ফেরত যায়নি

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:২৫

নূর আলম হিরণ বলেছেন: এরা এদের নাম আনে নিজের অপরাধকে হালকা করতে। এদের চালাকি এখন স্পষ্ট বুঝা সম্ভব হচ্ছে।

৬| ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৫৬

গিয়াস উদ্দিন লিটন বলেছেন: লুটেরার কবলে সোনার বাংলা।
জনগণ অসহায় !!!

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:২৭

নূর আলম হিরণ বলেছেন: মুক্তিযুদ্ধের আগ পর্যন্ত বাঙালি জাতি অন্য জাতির কারণে অসহায় ছিল, মুক্তিযুদ্ধের পর থেকে নিজেরা নিজেদের অসহায়ত্ব বরণ করে নিচ্ছে প্রতিনিয়ত।

৭| ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:১৫

নীল আকাশ বলেছেন: লেখা ভালো হয়েছে কিন্তু আসল কথা তো বলেন নি?
সব রসুনের কোয়া কিন্তু এক জায়গায়!
এই সব সম্রাট আর শামীম কার কার প্রশয়ে এত দূর করতে পেরেছে বলুন তো?
সব কিছু জানার পরও কেন সম্রাট কে এখন এরেস্ট করা হচ্ছে না?
এই সব কিছু হলো আরেকটা ক্যামোফ্লেজ, সামনে এই সরকার বড় ধরনের কোন উলটা পালটা সিদ্ধান্ত নিবে। যাতে কোন জনরোষ না তৈরি হয় তার আগেই রাস্তা পরিষ্কার করছে।
আওয়ামী লীগে এইগুলি পুরানো টেকনিক।
আমরা হলাম বেকুব জাতী, ইতিহাস থেকে কিছুই শিখি না।

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:১৫

নূর আলম হিরণ বলেছেন: এদের এরেস্ট করতে গেলেও ঝামেলা হয়, এরেস্টের ভয়ে এরা দেদারসে টাকা ঢালে তাতে অনেকে পার পেয়ে যায় অনেককে ধরতে বিলম্ব হয়।

৮| ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৫৩

রাজীব নুর বলেছেন: এরকম নগদ টাকা এই দেশের বহু মানুষের কাছে আছে। এত পরিমান টাকা যে তারা ব্যাংকেও রাখতে পারছে না। সরকারে এদের দ্রুত ধরুক। এই আশা করি।

২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:১৬

নূর আলম হিরণ বলেছেন: হ্যাঁ, এই দুইজনের কাছে যে বিপুল পরিমান নগদ অর্থ পাওয়া গেছে তাতে বুজা যাচ্ছে এমন সংখ্যা অনেক অনেক।

৯| ২৭ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ভোর ৫:২৮

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন: ক্যাসিনো দরবার হওয়ার পর থেকে আমার টিভিতে বাংলাদেশী চ্যানেল ধরতে পারছি না, বাংলাদেশী চ্যানেল ধরলেই টিভি টা পাগল হয়ে যায় আবোল তাবোল কথা বলে, সমস্যা কি চ্যানেলে না টিভিতে তাও ধরতে পারছি না। অগত্যা হিন্দি সিরিয়াল বাহু সাস আউর ঘর জামাই দেখতে হচ্ছে !!!

২৭ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সকাল ৯:৫৮

নূর আলম হিরণ বলেছেন: ক্যাসিনো দুর্নীতি ইস্যুতে কেউ ক্রসফায়ার পড়লে বুজে নিবেন বাকিরা বাঁচার চেষ্টা করছে।

১০| ২৭ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:৫৭

রাজীব নুর বলেছেন: সম্রাট ভাই এর কাছে কিছু টাকা চাইলে কি পাবো??

২৭ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১২

নূর আলম হিরণ বলেছেন: এখন চাইলে পেতে পারেন, টাকা লুকিয়ে ফেলার জন্য অনেক পথ বন্ধ হয়ে গেছে তার।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.