নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

ট্রুথ নেভার ডাই্‌জ

নিজের সম্পর্কে লেখার কিছু নেই । সাদামাটা ।

আহমেদ জী এস

পুরোপুরি একজন অতি সাধারন মানুষ । আমি যা আমি তাই ই । শয়তানও নই কিম্বা ফেরেশতা । একজন মানুষ আপনারই মতো দু'টো হাত, চোখ আর নিটোল একটা হৃদয় নিয়ে আপনারই মতো একজন মানুষ । প্রচন্ড রকমের রোমান্টিক আবার একই সাথে জঘন্য রকমের বাস্তববাদী...

আহমেদ জী এস › বিস্তারিত পোস্টঃ

মৃত্যু.... শুধু মুছে ফেলা নাম !

২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:০৮



পৃথিবী কি থেমে যায় কখনও ?
এই যে মাত্র আলম সাহেবের জানাজা শেষ হলো
কেউ কি থেমে গেলো কোথাও ! থমকে কি গেলো
কাকেদের ওড়াউড়ি ? পার্কে মানুষের হাত ধরাধরি ?

বসে থাকা ভিখিরীও কি চুপ করে আছে
হাত না পেতে ! যে দু’টি কিশোরী ছড়াচ্ছে
বাদামের খোসা, একজোড়া কপোত-কপোতী ওড়াচ্ছে
স্বপ্নের ফানুস , সব কি থেমে গেছে ?

রিক্সার ক্রিং ক্রিং ভেসে আসে
ভেসে আসে হট্টগোল মেছো বাজারের,
যেসবে কান পেতে রাখা দায়
তাও কি খানিক থমকাবে মনে হয় ?

গুটিয়ে যাবে কি পৃথিবীর সব কাজ ?
যতো ধড়িবাজ , মাগীর দালাল, কোর্টের মহুরী,
ঘাটের ইজারাদার , বাস ড্রাইভার
থামাবে কি আজ সব বেলেল্লাপনা তার !

কিছুই থামেনা , না সূর্য্য - না পৃথিবী
না থামে বাতাস , না তুমি - না আমি
থামেনা কিছুই , শুধু বয়ে চলে ধরাধাম
কেবল একজন থেমে যায় , মুছে ফেলে নাম !

মন্তব্য ১৩১ টি রেটিং +৩৪/-০

মন্তব্য (১৩১) মন্তব্য লিখুন

১| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:২৩

সম্রাট ইজ বেস্ট বলেছেন: কিছুই থামে না, শুধু কারো কারো নাম মুছে যায়। তবে একদিন সব মুছে যাবে।

২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৩২

আহমেদ জী এস বলেছেন: সম্রাট ইজ বেস্ট ,



মন্তব্যের জন্যে ধন্যবাদ ।

মৃত্যু কি নিষ্ঠুর - থামাতে পারেনা পৃথিবীর যতো কোলাহল !

একদিন হয়তো সব মুছে যাবে তবে আরো কোটি বছর পরে ।

২| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:২৪

তারেক_মাহমুদ বলেছেন: পৃথিবীতে কারো জন্য কোন কিছু থেকে, সবকিছুই চলে আপন গতিতে।

২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৩৮

আহমেদ জী এস বলেছেন: তারেক_মাহমুদ ,




কিছুদিন ছুঁয়ে ছুঁয়ে যাওয়া তারপর একদিন আপন গতিতে হারিয়ে যাওয়া না-ফেরার কোনও পথে .................

ধন্যবাদ ।

৩| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৩৩

ঋতো আহমেদ বলেছেন: 'কারো জন্যে কোনো কিছু থেমে থাকে না'-- এই সত্য-কে নিয়ে সহজ ও সুন্দর একটি কবিতা। ভালো লাগলো। ++

২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৪৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: ঋতো আহমেদ ,




এ পৃথিবীতে কে কাহার !!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!!

৪| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৪১

কুঁড়ের_বাদশা বলেছেন:

যেমন কর্ম তেমন ফল
প্রতিটি মানুষের মৃত্যু হলেও তার কর্ম দুনিয়ায় থেকে যায়।
বিজ্ঞান এতো উন্নত হয়নি যে প্রকৃতির প্রতিটি জিনিষ ব্যাখ্যা করতে পারবে।
তার মধ্যে মৃত্যু অন্যতম তাই ধরে নিলাম মৃত্যুটা একটা রহস্য।

২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:১৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: কুঁড়ের_বাদশা ,




মৃত্যু হলেও মানুষের কর্মফল দুনিয়ায় থেকে যায় - সত্য । কর্মফল একটি প্রক্রিয়া । এই প্রক্রিয়াজাত ফলাফলকে সাধারণ জ্ঞান বা বিজ্ঞান দিয়ে ব্যাখ্যা করা সম্ভব ।
আর মৃত্যু হলো প্রানের অনুপস্থিতি । প্রান কি , তা বিজ্ঞান আজও যেমন বুঝে উঠতে পারেনি ,সুদূর ভবিষ্যতেও বুঝে উঠতে পারবে কিনা সন্দেহ । তাই মৃত্যু রহস্য দিয়েই ঢাকা থাকে ।

কিন্তু এই রহস্যময় মৃত্যুতে পৃথিবী কিছুই থামিয়ে দেয়না , কবিতার বক্তব্যটি তাই ।
মন্তব্য ও লাইক দেয়াতে ধন্যবাদ ।

৫| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৪১

করুণাধারা বলেছেন: ভুলে থাকা কথাটা মনে করিয়ে দিলেন কবিতায়; ভালো লাগলো।

কবিতা পড়তে পড়তে এই গানটি মনে পড়ে গেল-

https://www.youtube.com/watch?v=83UiAPqSnuo

২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৩২

আহমেদ জী এস বলেছেন: করুণাধারা ,



"আমি নেই" ভাবতেই ব্যথায় ব্যথায় যে মন ভরে যায় , সে ব্যথা ভুলে থাকতেই চায় মানুষ । তারপরেও হঠাৎ হঠাৎ মনে পড়ে যায় তারই কথা ।

মন্তব্য এবং সাথে আমার প্রিয় গানগুলির একটিকে উল্লেখ করাতে ধন্যবাদ ।



৬| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৫২

মোঃ খুরশীদ আলম বলেছেন: মৃত্যু, সংক্ষিপ্ত জীবনের অবসান, অনন্ত কালের পথে যাত্রা।

২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৪১

আহমেদ জী এস বলেছেন: মোঃ খুরশীদ আলম ,




মৃত্যু, অনন্ত কালের পথে যাত্রা। ঠিক বলেছেন । অথচ কারো যাত্রাকালে পৃথিবী থমকে যায় না .............

ধন্যবাদ ।

৭| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৫৪

সিগন্যাস বলেছেন: একটি মৃত্যু কিছু করতে পারেনা।কিন্তু একাধীক মৃত্যু অনেককিছু করতে পারে।আলম সাহেবের মতো আরো দশ কোটি মৃত্যু হলে পুরো বাংলাদেশ অচল হয়ে যাবে।অতএব আপনার কবিতা আংশিক সত্য।

২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৫৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: সিগন্যাস ,




কবিতা আংশিক নয় , পুরোটাই সত্য । একাধিক মৃত্যু হয়তো একটি জনগোষ্ঠিকে শোকে নিমজ্জিত করতে পারে কিন্তু পুরো পৃথিবীকে থমকে দিতে পারেনা । :(
দশ কোটি মৃত্যু একদিনে হওয়া সম্ভব নয় কিছুতেই । তাই পুরো বাংলাদেশ অচল হয়ে যাবার সম্ভবনাও নেই । ;)

অনুগ্রহ করে কবিতাটি ভালো করে পড়ুন । কি প্রেক্ষাপটে এটি লেখা হয়েছে সেটা ভাবুন । নিজের পরিচিত কারো এমন প্রয়ানের ক্ষনটিকে স্মরণ করুন । আপনার মনেও হয়তো এই কবিতার মতোই কিছু ভাবনা বয়ে গেছে , দেখতে পাবেন ।

ধন্যবাদান্তে ।

৮| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৫৫

মোঃ জিদান খান (অয়ন) বলেছেন: পৃথিবী তার আপন কক্ষপথেই চলতে থাকে; শুধু মুছে যায় একটি নাম।
ব্লগটি ঘুরে আসার নিমন্ত্রণ রইলো।

২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১:৪৯

আহমেদ জী এস বলেছেন: মোঃ জিদান খান (অয়ন) ,




আমার ব্লগে স্বাগতম । ঠিকই বলেছেন - পৃথিবী তার আপন কক্ষপথেই চলতে থাকে; থমকে দাঁড়ায় না কখনও ।

যাবো আপনার ব্লগে ।
ধন্যবাদান্তে ।

৯| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:০০

সুমন কর বলেছেন: এমনি করে হারিয়ে যাবে, সব প্রিয় নাম.....

সুন্দর লিখেছেন।

২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১:৫৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: সুমন কর ,




পৃথিবীর খাতা থেকে নিজের নামটি মুছে ফেলার নামই - মৃত্যু । এমনি করেই খারিজ হয়ে যাবে প্রিয়- অপ্রিয় সব নাম ।
এই-ই সত্য ................
ধন্যবাদান্তে ।



১০| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:০২

পবন সরকার বলেছেন: কারো জন্য কিছু থেমে থাকে না। সুন্দর কবিতা।

২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ২:০৯

আহমেদ জী এস বলেছেন: পবন সরকার ,




কবিতাটি কয়েক মিনিটের বাস্তবতা থেকে উঠে আসা কবির ভাবনা । মসযিদ প্রাঙ্গনে জানাজা সেরে দুকদম বাইরে বেড়িয়েই কবি দেখেন , পৃথিবী চলছে পৃথিবীর মতো । থেমে নেই কেউ । সে বাস্তবতা থেকেই এই ভাবালুতার জন্ম ।

আপনার সুন্দর বলাতে ভালো লাগলো ।
ধন্যবাদান্তে ।

১১| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৩০

ফেনা বলেছেন: সুন্দর কাব্য; সুন্দর জীবন দর্শন।

ভাল লাগল।

২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৩৮

আহমেদ জী এস বলেছেন: ফেনা ,



সম্ভবত প্রথম এলেন আমার ঘরে । স্বাগতম ।

অল্পকথায় চমৎকার মন্তব্যটির জন্যে ধন্যবাদ ।

১২| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৩০

ফেনা বলেছেন: সুন্দর কাব্য; সুন্দর জীবন দর্শন।

ভাল লাগল।

২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৪৩

আহমেদ জী এস বলেছেন: ফেনা ,



মন্তব্যটি দু'বারে এলেও মুছে দেইনি নীতিগত কারনে । কারন, একজন পাঠকের মন্তব্য পোস্টের ইতিহাস । একে সংরক্ষন করে রাখা
মনে হয় শোভনীয় ।
শুভেচ্ছান্তে ।

১৩| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৩১

শায়মা বলেছেন: তখন এমনি করেই বাঁজবে বাঁশি এই নাটে
কাটবে গো দিন আজও যেমন দিন কাটে ....


তেমনি আর এমনিতে কোনোই বিভেদ থাকে না .....

২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৫৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: শায়মা ,




অপূর্ব .... অপূর্ব একটি মন্তব্য !

এমনি করেই বাঁজবে বাঁশি এই নাটে
কাটবে গো দিন আজও যেমন দিন কাটে ....

এই কবিতাটি লেখার পেছনের তাৎক্ষনিক অনুভবের সাথে একদম মিলে মিশে একাকার ।
অবশ্য আমারও তখন এই কথাই মনে পড়ে ছিলো সবচেয়ে আগে ----- যখন পড়বে না মোর পায়ের চিহ্ন এই বাটে ....

১৪| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৩১

খালেদা শাম্মী বলেছেন: কিছুই থামে না। হোক সত্য কিংবা মিথ্যা নিয়ে, তবুও আমরা এগিয়ে চলেছি। দারুণ লেগেছে পড়ে।
শুভকামনা।

২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:১৫

আহমেদ জী এস বলেছেন: খালেদা শাম্মী ,



কিছুই থামে না .... এই-ই সত্য । না থামি আমি , না সে !
ধন্যবাদান্তে ।

১৫| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৪৪

মোঃ খুরশীদ আলম বলেছেন: কারো যাত্রাকালে পৃথিবী থমকে যায়না- এটা সত্য। আর এটা হতেই হবে এমন কোন কথা নেই। তাই যদি হতো আজকের এই ধরনীকে আমরা এভাবে পেতাম না।
তবে, দুরদৃষ্টি সম্পন্ন মানুষেরা মহামানবদের প্রস্থানে প্রকৃতিতে বিভিন্ন পরিবর্তন লক্ষ্য করেন। এ নিয়ে অনেক কাব্য, গল্প, ঘটনা প্রচলিত রয়েছে। ধন্যবাদ জানবেন।

২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৩০

আহমেদ জী এস বলেছেন: মোঃ খুরশীদ আলম ,



ধন্যবাদ মন্তব্যের জন্যে ।

দুরদৃষ্টি সম্পন্ন মানুষেরা মহামানবদের প্রস্থানে প্রকৃতিতে যে বিভিন্ন পরিবর্তন লক্ষ্য করেন তা নিয়ে যে অনেক কাব্য, গল্প, ঘটনার জন্ম হয়েছে তা জানিয়ে লিখলে ভালো হয় । আমরাও জানতে পারি ।

১৬| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৪৭

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: শুভ সকাল প্রিয় কবি ভাই। না, কোনও কিছু কারো জন্য থেমে থাকে না। অথচ মায়াবী পৃথিবীতে আমরা কেবল ভেবে মরি, আহা রে আমি না থাকলে পোলাপান মইরা যাবে। সাময়িক অসুবিধা হয়তো হয়, তবে তা ক্ষনস্থায়ী।

নিরন্তর শুভেচ্ছা আপনাকে।

২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৪৮

আহমেদ জী এস বলেছেন: পদাতিক চৌধুরি ,



ধন্যবাদ কবিতাটি পড়া ও লাইক দেয়াতে ।

আসলে এটা হঠাৎ করে আসা একটি অনুভবের কথা । মসযিদ প্রাঙ্গন থেকে আলম সাহেবের জানাজা সেরে দুকদম বাইরে বেড়ুতেই দেখি , পৃথিবী চলছে পৃথিবীর মতো । ভিখিরীরা হাত পেতে আছে , গাড়ীর প্যা..পো, রিক্সার ঠুংঠাং , পাশের পার্কে কপোত কপোতী; থেমে নেই কেউ । সে বাস্তবতা থেকেই এই ভাবালুতার জন্ম ।

১৭| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১:০৭

আখেনাটেন বলেছেন: কিছুই থেমে থাকে নি... থাকে না...থাকবে না...

এই না থামার মাঝেই যে জাতিরা নিজেদের গুছিয়ে নিতে পেরেছে তাদের 'এই থেমে থাকা না থাকা' নিয়ে তেমন একটা আক্ষেপ নেই। কিন্তু আমরা অভাগা...আমাদের এই চিরন্তন আক্ষেপ নিয়েই ধরাধাম ত্যাগ করতে হবে। নিয়তির ফেরারী হয়ে গেছি যেন!!!

২৬ শে জুন, ২০১৮ রাত ৮:০৩

আহমেদ জী এস বলেছেন: আখেনাটেন ,




যারা না থেমেই নিজেদের গুছিয়ে-গাছিয়ে এগিয়ে নিয়ে যেতে পেরেছে তাদের প্রসঙ্গ ভিন্ন । আমরা অভাগা বলেই এমন কথা থাক ।
কবিতাটির প্রেক্ষপটও কিন্তু আলাদা । এটা হঠাৎ করে আসা খুব একান্ত একটি অনুভবের কথা । মসযিদ প্রাঙ্গন থেকে আলম সাহেবের জানাজা সেরে দুকদম বাইরে বেড়ুতেই দেখি , পৃথিবী চলছে পৃথিবীর মতো । ভিখিরীরা হাত পেতে আছে , গাড়ীর প্যা..পো, রিক্সার ঠুংঠাং , পাশের পার্কে কপোত কপোতী; থেমে নেই কেউ । সে বাস্তবতা থেকেই এই ভাবালুতার জন্ম ।

মন্তব্য ও লাইক দেয়ার জন্যে ধন্যবাদ ।

১৮| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ২:০১

কাইকর বলেছেন: সবকিছুই ক্ষণিকের জন্য। কিছুই থাকে না, থাকবে না

২৬ শে জুন, ২০১৮ রাত ৮:১৯

আহমেদ জী এস বলেছেন: কাইকর ,



কিছুই থাকে না, থাকবে না নয় ; বলেছি - কেউ একজনের প্রয়ানে পৃথিবী থেমে থাকেনা তারই কথা ।
এক মূহুর্তের একটি ভাবালুতার কথা । মৃত্যু কতো দীন-হীন , কেউ থমকে দাঁড়ায় না !

১৯| ২৬ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ২:৫৬

মো: নিজাম উদ্দিন মন্ডল বলেছেন:


একদিন সব ছেড়ে
চলে যাব বহু দুরে,
কোনদিন ফিরে আর......:(

২৬ শে জুন, ২০১৮ রাত ৮:৩৩

আহমেদ জী এস বলেছেন: মো: নিজাম উদ্দিন মন্ডল ,



একদিন সব ছেড়ে
চলে যাব বহু দুরে,
কোনদিন ফিরে আর......
আসিবোনা তোমারই ভাঙা ঘরে ;)

২০| ২৬ শে জুন, ২০১৮ বিকাল ৩:৩৯

কাওসার চৌধুরী বলেছেন: "কেবল একজন থেমে যায়, মুছে ফেলে নাম।"....... শেষের এই লাইনটি সবচেয়ে ভাল লেগেছে। জীবন নামের পৃথিবীটা একদিন থেমে যায়, হারিয়ে যায় সব কোলাহলকে পেছনে ফেলে। একদিন সবাই ভুলে যায় এই ক্ষুদ্র মানুষটার ভাবনাটিকে।

কিন্তু পৃথিবী নামক গ্রহটি সাক্ষী হয়ে ঠিকে থাকে লক্ষ কোটি বছর। পৃথিবীতে বসবাস করা মানুষ নামে ছোট্ট পৃথিবীটা একদিন চলে যেতে হয় চিরদিনের মতো; কিন্তু সৌরজগতে বাস করা পৃথিবীটার মৃত্যু কবে হবে কেউ জানে না। কারণ, মানুষের কল্পনাশক্তি এখনো পৃথিবীর, প্রকৃতির ভাবনা ও জীবন দর্শনকে ছুঁতে পারেনি।

অনেক ভাল লাগলো কবিতাটি পড়ে।

২৬ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:২০

আহমেদ জী এস বলেছেন: কাওসার চৌধুরী ,




"কেবল একজন থেমে যায়, মুছে ফেলে নাম।".
আমার কবিতার মূল বক্তব্যই এই লাইনটি ।

অসংখ্য ধন্যবাদ সুন্দর মন্তব্যটির জন্যে ।

২১| ২৬ শে জুন, ২০১৮ বিকাল ৩:৪৭

মোস্তফা সোহেল বলেছেন: কারও জন্য কিছু থেমে থাকে না।বেঁচে থাকতে সবাই শুধু দৌড়াতেই থাকে।
কবিত খুব ভাল লেগেছে ভাইয়া।

২৬ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:২৯

আহমেদ জী এস বলেছেন: মোস্তফা সোহেল ,




হ্যা ..... থমকে থাকেনা পৃথিবী কারো জন্যেই । কষ্টকর হলেও এটাই মহা সত্য ।

মন্তব্যের জন্যে আর লাইক দেয়াতে ধন্যবাদ ।

২২| ২৬ শে জুন, ২০১৮ বিকাল ৪:২৮

মোঃ মাইদুল সরকার বলেছেন:
চরম সত্য কথাটা কি সুন্দরভাবেই না বলেছেন-

কেবল একজন থেমে যায়, মুছে ফেলে নাম।

২৬ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:৪৯

আহমেদ জী এস বলেছেন: মোঃ মাইদুল সরকার ,




"কেবল একজন থেমে যায়, মুছে ফেলে নাম।".
আমার কবিতার মূল বক্তব্যই এই লাইনটি । ঠিক জায়গাতেই চোখ পড়েছে আপনার ।

ধন্যবাদান্তে ।

২৩| ২৬ শে জুন, ২০১৮ বিকাল ৪:৪৮

ওমেরা বলেছেন:
খুব বাস্তব একটা কবিতা ।
ভাইয়া এটা আমি খুব কাছ থেকে দেখেছি ,কারো জন্য কিছু থেমে থাকে না । শুধু যার মৃত্যু হয় তার জীবনের কর্ম থেমে যা্য.

ধন্যবাদ ভাইয়া ।

২৭ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:০৮

আহমেদ জী এস বলেছেন: ওমেরা ,



বাস্তবতা থেকেই হয়তো আপনি বুঝতে পেরেছেন ঐ মূহুর্তে আপনার উপলব্ধি এমন হয়েছিলো কিনা !

মন্তব্যে ভালোলাগা ।

২৪| ২৬ শে জুন, ২০১৮ বিকাল ৫:৫১

কথাকথিকেথিকথন বলেছেন:




মৃত্যু মানুষকে ভাবায় না । বরংচ আমার মনে হয় মানুষ মৃত্যুকে ভাবিয়ে তোলে ! সে হয়তো ভাবে, মানুষ বড্ড বেহায়া, জীবনের দুয়ারে বারংবার হাত পেতে থাকে অথচ তার কিছুই দেওয়ার নেই !

তাই চারদিকে কোলাহল, হইছই, রমরমা রঙিন সোভা । মানুষ মূলত রঙ বিলাসী, মৃত্যুকে সাদাকালো পর্দা ভাবে, তাই সেদিকে কেউ মনোযোগী নয়, হতেও চায় না মনোযোগী ।

২৭ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:২৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: কথাকথিকেথিকথন ,




হতে পারে মৃত্যুও হয়তো আমাদেরকে নিয়ে ভাবে ও রকম কিছু কিম্বা হয়তো ভাবে, কি দোষে আমি তাকে নিয়ে যাচ্ছি অগ্যস্ত যাত্রার পথে !

কি পাপ , কি পূণ্য নিয়ে তার
মৃত্যুতেই যে হতে হবে পার !!!!!!


২৫| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:০০

রাজীব নুর বলেছেন: সহজ সরল সুন্দর কবিতা ।

২৭ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৩৯

আহমেদ জী এস বলেছেন: রাজীব নুর ,



সহজ সরল হলেই কবিতার স্বাদ বুঝতে পারা যায় , নইলে বুঝতে গিয়ে বিষম খেতে হয় ।

ধন্যবাদান্তে ।

২৬| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:১৪

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: প্রিয় কবি ভাই, আপনি কখন উত্তর দেবেন জানিনা। তবে আপনার পরিচয়েই উত্তরটা পেলাম, ট্রুথ নেভার ডাইজ।


শুভ কামনা জানবেন।

২৭ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:০৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: পদাতিক চৌধুরি ,




হা....হা...হা.... আমি নিজেও জানিনে কখন মন্তব্যের জবাব দিতে পারবো । সময় তো একটা ফ্যাক্টর বটেই তার সাথে যোগ করতে হয় মেজাজ-মর্জি ।
আমার পরিচয় - আমি আপনাদেরই একজন । খুবই সাধারণ ।

২৭| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৩৭

সনেট কবি বলেছেন: শুধু একজন থেমে যায়। তার নাম মুছে যায়। সরল সত্য।

২৭ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:৩৮

আহমেদ জী এস বলেছেন: সনেট কবি ,




ধন্যবাদ সুন্দর মন্তব্যের জন্যে ।

২৮| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৪৭

কথার ফুলঝুরি! বলেছেন: কোনো কিছুই আসলে থেমে থাকেনা ভাইয়া :( আজকে যা কিছুর জন্য এত যুদ্ধ করছি কাল মরে গেলে সব শেষ । আজ মরলে কাল দুইদিন :(

২৭ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১:৫৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: কথার ফুলঝুরি!




হ্যা .....আজ মরলে কাল দুইদিন । তারপরে আর আমি নেই ..................
ধন্যবাদান্তে ।

২৯| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:০৮

বিদ্রোহী ভৃগু বলেছেন:

হায়! এ দারুন অমোঘ সত্য কত সহজেই ভুলে যাই!
লোভ, হিংসা ক্রোধ নশ্বরতার যত আয়োজনে
অবিনশ্বর আত্মাকে করি কলুষিত
দেহের তাড়নায় -

সব থেমে গেলে থামে তা শুধুই একজনায়
বাকী সব তেমনি চলে চলমান ভ্রক্ষেপহীনতায়
আফসোসের সে ক্ষন আসার আগেই হো মন
জাগো-আত্মায়।

আপনার দারুন কাব্য ছুঁয়ে গেল :)

+++++++++

২৭ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ২:২৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: বিদ্রোহী ভৃগু ,





কবিতাটি লেখা হয়েছে একজনার জানাজা থেকে বেরিয়ে বাইরে আসতেই চারপাশটাকে চলমান দেখার উপলব্ধি থেকে । সবই চলছিলো নিজের নিজের মতোন, থমকে দাঁড়ায়নি কিছুই । ঠিক আপনার এই লাইনটির মতো --- বাকী সব তেমনি চলে চলমান ভ্রক্ষেপহীনতায়.....

কবিতাটি যে আমার পাঠকদের মনে অনেক ভাবনার জন্ম দিয়ে গেছে , তা আমার প্রাপ্তি ।
ধন্যবাদান্তে ।

৩০| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:১৩

কাছের-মানুষ বলেছেন:
কোন কিছুই থেমে থাকে না, সব কিছুই স্বাভাবিক নিয়মে চলতে থাকে।
কবিতাটি আমার ভাল লেগেছে।

২৭ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৩৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: কাছের-মানুষ ,




আন্তরিক মন্তব্য ।
আপনার ভালো লেগেছে জেনে লেখাটিকে সার্থক মনে হচ্ছে ।
ধন্যবাদান্তে ।



৩১| ২৬ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:২০

চাঁদগাজী বলেছেন:


সেটাই সত্য, জীবন চলতে তাকে, শুধু ১ জনই থেমে যায়।

২৭ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৫১

আহমেদ জী এস বলেছেন: চাঁদগাজী ,


তাই তো লিখেছি -------
কিছুই থামেনা , না সূর্য্য - না পৃথিবী
না থামে বাতাস , না তুমি - না আমি
থামেনা কিছুই , শুধু বয়ে চলে ধরাধাম
কেবল একজন থেমে যায় , মুছে ফেলে নাম !


ধন্যবাদান্তে ।

৩২| ২৬ শে জুন, ২০১৮ রাত ৮:৪৭

মনিরা সুলতানা বলেছেন: কী যে নিদারুন সত্যি এটাই-
কিছু'ই থেমে থাকে না কারো জন্য,সাময়িক থেমে থাকা কেবল।
দারুন ভালোলাগা লেখায়।

২৭ শে জুন, ২০১৮ রাত ৮:০৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: মনিরা সুলতানা ,



এ এক ক্ষনিকের উপলব্ধি । আর দশটা জিনিষের মতোই বুদবুদ কেটে তলিয়ে যাওয়া শুধু । তবুও সে উপলব্ধিটুকু আপনাদের একটু যে নাড়া দিয়ে গেছে , সেটুকুই লেখাটির প্রাপ্তি ।

ধন্যবাদান্তে ।

৩৩| ২৬ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:২২

জেন রসি বলেছেন: পৃথিবীও থেমে যাবে একদিন। ঠিক মানুষের মত! তবে পসিবিলিটি বলেও একটা ব্যাপার আছে। পৃথিবী কিংবা মানুষ ভবিষ্যতে অমর হয়েও যেতে পারে। যেহেতু সত্যের ধর্মই হচ্ছে রূপান্তরিত হওয়া!

তবে আপাতত মৃত্যুই সত্য।

শূন্যতায় হারিয়ে যেতেই হবে— এ নিয়ে মানুষের অভিমান তাই চিরায়ত।

কবিতায় সে চিরায়ত অভিমানের স্পর্শ পেলাম।



২৭ শে জুন, ২০১৮ রাত ৮:৩৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: জেন রসি ,



এটা মানতে পারলুম না যে সত্যের ধর্মই হচ্ছে রূপান্তরিত হওয়া! । রূপান্তর হলে সত্য আর সত্য থাকেনা । বলতে পারেন, শক্তি অবিনশ্বর , এক রূপ থেকে আরেক রূপে তার রূপান্তর ঘটে থাকে । আত্মা একটি শক্তি , সকল ধর্মেই এটা মেনে নেয়া হয় । ধর্মীয় দৃষ্টি কোন থেকে হয়তো সেই শক্তির রূপান্তর ঘটতে পারে । বিজ্ঞান এ ব্যাপারে এখনও অন্ধকারে ।

আর পৃথিবী তো থেমে যাবেই একদিন , সেও তো বস্তুর ধর্ম অনুসারে । যাক , এগুলো বিজ্ঞানের কথা ।

কবিতায় অভিমান নয় , ক্ষনেকের নিরব উপলব্ধির কথাই বলেছি ।

মন্তব্যের জন্যে ধন্যবাদ । শুভেচ্ছান্তে ।

৩৪| ২৭ শে জুন, ২০১৮ ভোর ৪:৩৮

চঞ্চল হরিণী বলেছেন: যে আবেগ থেকে এই অনুভব এসেছে সেটা খুব স্পষ্টভাবে বুঝতে পেরেছি, কারণ মাত্র তিন মাস আগেই আমিও এই আবেগে তীব্রভাবে তাড়িত হয়েছি। চলমান বিশাল পৃথিবীর কিছুই থামে না, কিন্তু ক্ষুদ্র ব্যক্তি পৃথিবীর অনেক কিছুই থেমে যায়। যে মেয়েটা প্রত্যেক শুক্রবারে বাবার হাত ধরে ঘুরতে যেত, এটা ওটা কিনে দেয়ার কঠিন বায়না ধরতো তার এই সব থেমে গেছে। নিয়ম করে প্রত্যেক পহেলা বৈশাখে বাপুর সাথে মেলায় যাওয়া তার আর কোনদিন হবে না। যে বউটা তার স্বামীর পছন্দের খাবার রান্না করতো সেটা আর তেমনভাবে হবে না। সেই মানুষের আদর সে আর কোনদিন পাবে না। যে মেয়েটা অসুস্থ বাবাকে নিয়ম করে ওষুধ দিত, প্রেশার মাপত তার এইসব কাজ থেমে গেছে। বাবার কাছে থেকে ঈদ সালামী সে আর কোনদিন পাবে না। এমন আরও অনেক কিছুই থেমে গেছে যা অন্যরা দেখতে পাবে না। মারা যাওয়া মানুষটাই হয়তো কারো কাছে পুরো পৃথিবীটাই ছিল। প্রতিটি মানুষের নিজস্ব বৃত্ত আছে, মানুষটি মারা গেলে এই বৃত্তের পুরোটাই থেমে যায়, কিন্তু অগুনতি বৃত্তের চলমান পৃথিবীতে সেটা বোঝা যায় না, বোঝে শুধু সেই বৃত্তের ভেতরের মানুষগুলো। তখন দিন কেটে যায় যার যার বৃত্তে ভিন্নভাবে।

“প্রিয়জন চলে গেলে মানুষই ব্যথিত হয়,
আকাশ নির্বিকার, আকাশ কখনও নয়।
তোমরা মানুষ, তাই সহজেই দুঃখ পাও,
হে ঈশ্বর, আমাকে আকাশ করে দাও”। নির্মলেন্দু গুণ

একটা টাইপো- *ধরিবাজ-ধড়িবাজ

২৭ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:১৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: চঞ্চল হরিণী ,




ঠিকই বলেছেন , অগুনতি বৃত্তের চলমান পৃথিবীতে কেউ একজনের তিরোধান খুব একটা রেখাপাত করেনা । দাগ রেখে যায় শুধু সেই বৃত্তের ভেতরের মানুষগুলোর মনের উঠোনে । যেমন , আবেগে তীব্রভাবে তাড়িত হয়েছেন আপনি ।

সত্যি কথা বলতে ঠিক আবেগ থেকে নয় , কঠিন বাস্তবতা থেকে লেখা । এ এক ক্ষনিকের উপলব্ধি , লেখা হয়েছে একজনার জানাজা থেকে বেরিয়ে বাইরে আসতেই চারপাশটাকে নির্বিকার ভাবে চলমান দেখার উপলব্ধি থেকে । সবই চলছিলো নিজের নিজের মতোন, থমকে দাঁড়ায়নি কিছুই । মনে হচ্ছিলো , এরকমই তো দুনিয়া , একটা মানুষ নেই হয়ে গেলো অথচ আশেপাশের অন্য কারো কোনও বিকার নেই ! অথচ মারা যাওয়া মানুষটাই হয়তো কারো কারো কাছে পুরো পৃথিবীটাই ছিল। কি অদ্ভুত তাইনা ?

ধন্যবাদান্তে ।

২৭ শে জুন, ২০১৮ রাত ১০:৪৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: চঞ্চল হরিণী ,



দুঃখিত , টাইপো ধরিয়ে দেয়ার জন্যে আপনাকে শুকরিয়া জানানো হয়নি ।
ঠিক করে নিয়েছি । ধন্যবাদ ।

৩৫| ২৭ শে জুন, ২০১৮ ভোর ৫:০৪

সোহানী বলেছেন: খুব কাছের কেউ চলে যাওয়ার ব্যাথা পুরো কবিতা জুড়ে। হাঁ, সকালের সূর্য্য উঠবে, রাতে চাঁদ আলো দিবে, যে ছেলেটি সকালে পত্রিকা দিয়ে যায় সে প্রতিদিনের মতোই দিয়ে যাবে, যে ভীড় ঠেলে করিম সাহেব রোজ অফিসে যায় সে পরদিন সেভাবেই যাবে, যে মাছওয়ালা মাছ দিয়ে যায় সে তাও দিয়ে যাবে প্রতিদিনের মতো.......... সবই চলবে নিয়মের তালে প্রতিদিনের মতো। শুধু থাকবে না একজন। ........ শুধু যোগ হবে কাছের মানুষগুলো অশ্রু আর দীর্ঘশ্বাস।

তবে আমি সবসময়ই বিশ্বাস করি কর্মে। আমি মরে যেতে পারি কিন্তু আমার কর্ম আমাকে বাচিঁয়ে রাখতে পারে যুগের পর যুগ.... হাজার বছর।

২৭ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:৩৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: সোহানী ,



চমৎকার বলেছেন -- যে ছেলেটি সকালে পত্রিকা দিয়ে যায় সে প্রতিদিনের মতোই দিয়ে যাবে, যে ভীড় ঠেলে করিম সাহেব রোজ অফিসে যায় সে পরদিন সেভাবেই যাবে .....
এরই নাম যে চলমান জীবন ।

খুব কাছের কেউ নয় , সম্পর্কিত একজন । তারঁ জানাজা থেকে বেরিয়ে বাইরে আসতেই চারপাশটাকে নির্বিকার ভাবে চলমান দেখে হঠাৎ করেই মনে হয় দার্শনিক হয়ে উঠেছিলুম । একটা উপলব্ধি তখন ঘাঁই দিয়ে গেলো মনের মাঝ পুকুরে । মনে হচ্ছিলো , এরকমই তো দুনিয়া , একটা মানুষ নেই হয়ে গেলো অথচ আশেপাশের অন্য কারো কোনও বিকার নেই ! খুব বাস্তব ।

তাই তো লিখতে হয়েছে ----
কিছুই থামেনা , না সূর্য্য - না পৃথিবী
না থামে বাতাস , না তুমি - না আমি
থামেনা কিছুই , শুধু বয়ে চলে ধরাধাম
কেবল একজন থেমে যায় , মুছে ফেলে নাম !


ধন্যবাদ সুন্দর মন্তব্য আর লাইক দেয়ার জন্যে ।
শুভেচ্ছান্তে ।

৩৬| ২৭ শে জুন, ২০১৮ সকাল ৭:৩৭

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: পৃথিবীর বুক থেকে মুছে যায় নাম। আর মরার পরের জীবন সেটাতো ভয়াবহ। ভাবলেই গা শিহরে ওঠে। কঠিন বিষয়ের উপর কবিতা ।দূর্দান্ত লিখেছেন।

২৭ শে জুন, ২০১৮ রাত ১০:৩৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: সেলিম আনোয়ার ,



বিষয়টি কি খুব কঠিন ? মনে হয় এর চে' সহজ, নিত্যকার, ধ্রুব বিষয় আর নেই । সবার উপরে মৃত্যুই সত্য ।

মন্তব্যে ধন্যবাদ ।

৩৭| ২৭ শে জুন, ২০১৮ সকাল ৯:২৫

রাজীব নুর বলেছেন: খুব সুন্দর।

২৮ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:১৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: রাজীব নুর ,




দ্বিতীয়বার আসার জন্যে ধন্যবাদ ।

৩৮| ২৭ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:২৭

ধ্রুবক আলো বলেছেন: খুব সুন্দর কবিতা। খুবই শোকাবহ, বেশ আবেগি, অনেক অর্থবোধক কবিতা।
মৃত্যু হচ্ছে একটা কঠিন সত্য। যা থামিয়ে দেয় জীবনের গতি।

২৮ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৩১

আহমেদ জী এস বলেছেন: ধ্রুবক আলো ,




মৃত্যু হচ্ছে একটা কঠিন সত্য, এ কথায় দ্বিমত নেই তবে একটি মৃত্যু থামিয়ে দেয় একজনারই জীবনের গতি। বাকী সব জীবন , জীবনের পথেই চলে , দাঁড়ায় না ।
কবিতার মূল সুর এমনই ।

সুন্দর, গোছালো মন্তব্যে ধন্যবাদ ।

৩৯| ২৭ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:১৪

নতুন নকিব বলেছেন:



আসলে কারো জন্য কিছু থেমে থাকে না। কবিতায় ক্ষনস্থায়ী জীবনের অস্থায়িত্ব নিয়ে গভীর উপলব্ধি রয়েছে। যারা জীবন নিয়ে ভাবেন না, তাদের প্রতি ধিক্কারের শব্দাবলিও উচ্চারিত হয়েছে অনন্য পারঙ্গমতায়।

জীবনের পরিনতির এই ভাবনাগুলো স্পর্শ করুক সবাইকে।

২৮ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:৩৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: নতুন নকিব ,



আসলে কারো জন্য কিছু থেমে থাকে না। যথার্থ বলেছেন ।

এমন চমৎকার উপলব্ধির মন্তব্যে অসংখ্য ধন্যবাদ ।
শুভেচ্ছান্তে ।

৪০| ২৭ শে জুন, ২০১৮ দুপুর ১২:২৪

শাহরিয়ার কবীর বলেছেন:

মহা বিষ্ফোরণ বা বিগ ব্যাং এর পরে পৃথিবী সৃষ্টি হয়ে আর কখনো সে থেমে থাকেনি। সে চলছে তার আপন গতিতে :P

মরিতে চাহিনা আমি সুন্দর ভূবনে

যত বড় জ্ঞানী,গুনী ও বিজ্ঞানী হোক না কেন কেউ মরেত চায় না, এমন কী যে স্বর্গে যে চায় সেও।
মৃত্যু হল জীবনের চুড়ান্ত সমাপ্তি।পার্থিব জগত ছেড়ে অনন্ত জগতের প্রবেশ। এই সুন্দর পৃথিবী ছেড়ে
আগে-পরে সবার একদিন চলে যেতে হবে।

কবিতা ভালো লিখেছেন ভাইয়া ।

২৯ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:১৩

আহমেদ জী এস বলেছেন: শাহরিয়ার কবীর ,




পৃথিবী চলছে তার আপন গতিতে । পৃথিবীর খাতা থেকে এইমাত্র যে মুছে ফেলেছে তার নাম, তার স্মরণে সে ক্ষনেকের জন্যও থমকে দাঁড়াচ্ছে না । তাই তো কবির আক্ষেপ - মরিতে চাহিনা আমি সুন্দর ভূবনে....

সুন্দর মন্তব্যে ধন্যবাদ ।
শুভেচ্ছান্তে ।

৪১| ২৭ শে জুন, ২০১৮ বিকাল ৪:৪০

খায়রুল আহসান বলেছেন: "কেবল একজন থেমে যায়, মুছে ফেলে নাম" - এটাই বাস্তব সত্য, কেবলমাত্র একজনই থেমে জায়, বাকীরা চলতে থাকে আগের মতই। নিকটজনেরা হয়তো কিছুক্ষণ থমকে রয়, তারপর তারাও সব ভুলে যায়, তারাও চলতে থাকে আগেরই মতন।
একটা পরম সত্যকে এমন চমৎকারভাবে উপস্থাপনার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ ও অভিনন্দন।
৫ নং মন্তব্যে করুণাধারা এর লিঙ্কে দেয়া গানটা ভাল লেগেছে। এজন্য তাকেও ধন্যবাদ।
মসযিদ প্রাঙ্গনে জানাজা সেরে দুকদম বাইরে বেড়িয়েই কবি দেখেন , পৃথিবী চলছে পৃথিবীর মতো । থেমে নেই কেউ । সে বাস্তবতা থেকেই এই ভাবালুতার জন্ম (১০ নং প্রতিমন্তব্য) - এ অভিজ্ঞতা গত কয়েক সপ্তাহে আমার বহুবার হয়েছে, তাই আমি আপনার এ ভাবালুতার সাথে একাত্মবোধ করেছি।
শায়মা এর মন্তব্য (১৩ নং) এবং আপনার প্রতিমন্তব্য - দু'টোই মন ছুঁয়ে গেল!

২৯ শে জুন, ২০১৮ রাত ৮:১৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: খায়রুল আহসান ,



লেখা ও মন্তব্য নিয়ে আপনার বিশ্লেষনধর্মী মন্তব্যে নতুন করে বলার কিছু নেই । এই কবিতার সাথে , তার ভাবালুতার সাথে একাত্মবোধ করাটা আপনার পক্ষে স্বাভাবিক, কারন আপনার বেশ কিছু লেখা এই ভাবালুতাকে নিয়েই লিখেছেন । অতি সম্প্রতি আপনার প্রকাশিত শেষোক্ত কবিতায় আমার এই কবিতার কয়েকটি চরণ তুলে মন্তব্যও করেছিলুম ।

হুম , এমন অভিজ্ঞতা প্রতিটি মানুষেরই কম বেশি থাকে আর প্রতিটি অভিজ্ঞতার পরই একটি দীর্ঘশ্বাস বেরিয়ে আসে ।

ধন্যবাদান্তে । ভালো থাকুন ।

৪২| ২৮ শে জুন, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:২৫

মোঃ আবু বকর ছিদ্দিক বলেছেন: মৃত্যু যেন হায়নার মত তাড়া করে আমাদের।দুঃখজনক হলেও সত্য।,আমরার এমন ভাব করি যেন আমরা চিরন্জীব।আমার নতুন ব্লগে সবাই আমন্ত্রিত।ইসলামে দাসপ্রথা ছিল কি?

২৯ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:০৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: মোঃ আবু বকর ছিদ্দিক ,



ধন্যবাদ সুন্দর মন্তব্যের জন্যে ।
যাবো আপনার পোস্টে ।

শুভেচ্ছান্তে ।

৪৩| ২৮ শে জুন, ২০১৮ রাত ৯:২৯

শামচুল হক বলেছেন: ওস্তাদ, চমৎকার একখান কবিতা লিখেছেন। কথাগুলো বাস্তব সত্য।

৩০ শে জুন, ২০১৮ সকাল ১১:৪৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: শামচুল হক ,





আমাকে, আপনার এই "ওস্তাদ " ডাকটুকু বেশ মজার । নষ্টালজিক করে দেয় !

মন্তব্যের জন্যে ধন্যবাদ ।

৪৪| ২৯ শে জুন, ২০১৮ রাত ৮:২৪

জুন বলেছেন: মৃত্যুকে নিয়ে বড্ড মন কেমন করা এক হিম হিম কবিতা লিখেছেন প্রিয় ব্লগার। এ বড় রহস্যময় এক ঘটনা প্রতিটি মানব জীবনে।
তাইতো পারস্যের বিখ্যাত রুবাই লেখক ওমর খৈয়াম লিখেছিলেন ঃ-

অনন্ত অম্বরে যারা করেছে প্রবেশ,
বলেনাতো কিছু তারা ফিরে এসে কেহ
পথের ইঙ্গিত মাত্র নাহি দেয় একটি বিদেহ,
অজানা সে ওপারের লইতে উদ্দেশ
নিজেদেরই তাই কিগো একে একে যেতে হয় শেষ !

ভালোলাগলো অনেক ।
+

০২ রা জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:১২

আহমেদ জী এস বলেছেন: জুন ,



হিম হিম কবিতা নয় , ক্ষনেকের ঝিম ধরা ভাবনার কথা নিয়েই এই কবিতা ।

আপনার জানার পরিধি যে কতোখানি , এ প্রশংসা আমি আপনাকে প্রায়ই করি । এখানেও তার ব্যতিক্রম হয়নি, খৈয়ামকে উদ্ধৃত করায় ।
খৈয়াম যা অনুভব করেছেন, আমি অধমও সেই একই উপলব্ধি নিয়ে লিখেছি ।

মন্তব্যে প্লাস ।
শুভেচ্ছান্তে ।

৪৫| ৩০ শে জুন, ২০১৮ বিকাল ৩:২৩

উম্মে সায়মা বলেছেন: এটাই প্রকৃতির অমোঘ নিয়ম, তবু ভাবলেই কেমন মন খারাপ হয়ে যায় :|
খুব মন কেমন করা একটা কবিতা লিখেছেন আহমেদ জী এস ভাই।+++

০২ রা জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:২২

আহমেদ জী এস বলেছেন: উম্মে সায়মা ,



" কিছুই থামেনা , না সূর্য্য - না পৃথিবী
না থামে বাতাস , না তুমি - না আমি
থামেনা কিছুই , শুধু বয়ে চলে ধরাধাম
কেবল একজন থেমে যায় , মুছে ফেলে নাম !"

হুম , এটুকু পড়লেই মন কেমন করার কথাই । ঠিক যেন ---- আমি নেই ভাবতেই ব্যথায় ব্যথায় মন ভরে যায়....

মন্তব্য আর প্লাসে দেয়াতে ধন্যবাদ ।

৪৬| ০১ লা জুলাই, ২০১৮ বিকাল ৩:২৭

জাহিদ অনিক বলেছেন:

তবুও জীবন যাচ্ছে চলে জীবনের নিয়মে।


কবিতা ভালো লেগেছে খুব

০৬ ই জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:১৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: জাহিদ অনিক ,




প্রতিমন্তব্য করতে অনিচ্ছাকৃত দেরীর জন্যে দুঃখিত ।
জীবন চলে যায় জীবনের মতোই - একটি দামী কথা বলেছন ।

ধন্যবাদান্তে ।

৪৭| ০২ রা জুলাই, ২০১৮ সকাল ৮:৩১

শিখা রহমান বলেছেন: কবিতা সত্যি বলে বিশ্বাস করি। কিন্তু এই কবিতাটা নিদারুণ সত্য।

শেষের চারলাইন খুব ভালো লেগেছে, বিশেষ করে শেষের লাইনটা। কবিতায় মুগ্ধতা আর ভালোলাগা।

শুভকামনা। ভালো থাকবেন।

০৬ ই জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৫২

আহমেদ জী এস বলেছেন: শিখা রহমান ,




জীবন নামের দীপশিখা তো জ্বলে ওঠে নিভে যাবার জন্যেই ।
হ্যা..... এমন সত্যের মতোই ভয়ঙ্কর কবিতাখানি ।

শেষের লাইনটি --- কেবল একজন থেমে যায় , মুছে ফেলে নাম ! সবচেয়ে পুরাতন কথা , সবচেয়ে .............

মুগ্ধতার জন্যে ধন্যবাদ । শুভেচ্ছান্তে ।

৪৮| ০৬ ই জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:৪০

নীলপরি বলেছেন: পড়তে দেরী হয়ে গেলো । আর পড়ে মনটা অন্যরকম হয়ে গেলো । খুব সুন্দর লিখেছেন ।

নিকটের মানুষেরা যেমন বাঁচছিল তেমনই বাঁচে । শুধু তাদের জীবনে সেই চলে যাওয়া মানুষটার দরজা বন্ধ হয়ে যায় । তারা আর সেখানে যেতে পারে না । এটা হয়তো থেমে থাকা । মনটা থেমে যায় ।

শুভকামনা

০৬ ই জুলাই, ২০১৮ রাত ১১:১১

আহমেদ জী এস বলেছেন: নীলপরি ,



দেরী হলেও ক্ষতি নেই কারন যে বিষয়ে লিখেছি তা আমার- আপনার, সবার বেলাতেই অলঙ্ঘনীয় একটি ব্যাপার । একদিন না একদিন এর সামনে পড়তেই হবে সবাইকে । সব পাট চুকিয়ে থেমে যাবে একেকজন !

শুভকামনা আপনার জন্যেও ।

৪৯| ১২ ই জুলাই, ২০১৮ রাত ১:১৫

তামান্না তাবাসসুম বলেছেন: এই মূহুর্তে আমার নানীর মৃত্যুর শোকের মধ্যে আছি। এর জন্য হয়তো আরো বেশি অনুভব করতে পারছি আপনার কবিতাটা।

১২ ই জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৫২

আহমেদ জী এস বলেছেন: তামান্না তাবাসসুম ,





এমন পরিস্থিতিতে , আমার মনে হয় অনেকেরই ভেতরই এই কবিতার ভাবনাটি একবার না একবার বিদ্যুতের মতো ঝিলিক দিয়েই যায় ।

ধন্যবাদ মন্তব্যের জন্যে ।

৫০| ১৪ ই জুলাই, ২০১৮ রাত ৮:২৫

মাহবুবুল আজাদ বলেছেন: চমৎকার +++

১৬ ই জুলাই, ২০১৮ রাত ৮:২৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: মাহবুবুল আজাদ ,




অশেষ ধন্যবাদ মন্তব্যে ।

৫১| ১৮ ই জুলাই, ২০১৮ রাত ৯:৩৩

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন:
এক সময় মানুষ মৃত্যুকে পিছিয়ে দিতে পারবে। বিজ্ঞানের উন্নতির ফলে মানুষের আয়ু বাড়বে। তখন মানুষের গড় আয়ু ১০০+ হয়ে যাবে।

মৃত্যু মানে একটি অধ্যায়ের সমাপ্তি। জীবন চক্রের যেমন শেষ আছে তেমনি আবার শুরু ও আছে।

২০ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:০৮

আহমেদ জী এস বলেছেন: মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন ,




মানুষের গড় আয়ু বাড়লেও এই কবিতার ভাবাবেগের ছবিটি মুছে যাবেনা । কেউ একজন চলে যাবে , মুছে ফেলবে নাম ....

৫২| ২০ শে জুলাই, ২০১৮ ভোর ৫:২৪

সোহানী বলেছেন: হুম ... ব্যাস্ত মনে হয়!!!!!!!!

২০ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ১:৫৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: সোহানী ,




আমাকে আপনি ভুলে যাননি দেখে ভালো লাগলো ।
সে অর্থে ব্যস্ত নই । আসছি তো মাঝে মাঝেই ।
আশা করি, পার্থিব সব কিছু নিয়ে আপনিও ভালো আছেন !

শুভকামনা রইলো । ভালো থাকুন আর থাকুন আনন্দে ।

৫৩| ২১ শে জুলাই, ২০১৮ ভোর ৫:৩০

সোহানী বলেছেন: আপনাদেরকে ভোলা কি সহজে সম্ভব??? সম্পর্কতো অনেকটা আত্মার, তাই নয় কি??

আমার হয়েছে বহুত জ্বালা... লিখতে বসলে একবার মনে হয় দেশ নিয়ে লিখি কারন দেশের সমস্যা তুলে ধরতেই হবে আবার মনে হয় নাহ্ বিদেশ নিয়েই লিখি। বিদেশ জীবনই জানাই সবাইকে............. হাহাহাহা মাঝপথে কিছুই লিখা হয় না।

আপনার কি সমস্যা???????? লিখা নেই কেন?

২২ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:০৮

আহমেদ জী এস বলেছেন: সোহানী ,




এটাই হলো ব্লগীয় সৌহার্দ্যতা । এখনও এটা আছে বলে, সামু একটা পরিবার ।
দেশ-বিদেশের বাইরেও তো লেখার অনেক কিছু আছে , তা নিয়ে লিখুন । না হয় মাঝপথের একটা গল্পই লিখে ফেলুন ।

লেখা আছে । দিচ্ছি দিচ্ছি করে আর দেয়া হচ্ছেনা, এটাই যে আমার সমস্যা.....
আপনারই বা খবর নেই কেন ? প্রতিবেশীরা কি ঘুমুচ্ছে ? :)

৫৪| ২১ শে জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৩৯

ভ্রমরের ডানা বলেছেন:



বাস্তবতা! বড় কঠিন কবিতার বিষয়বস্তু!

২৩ শে জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৫০

আহমেদ জী এস বলেছেন: ভ্রমরের ডানা ,



ধন্যবাদ মন্তব্যের জন্যে ।
তবে শুধাই , খুব কি কঠিন কবিতার বিষয়বস্তু ! কিন্তু খুব সহজ ভাবেই তো লেখা !

৫৫| ২৪ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ১২:২১

জুন বলেছেন: অনেকদিন হলো কিছু লিখছেন না যে ! ভালো আছেন তো আহমেদ জী এস ?

২৫ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১০:৪৩

আহমেদ জী এস বলেছেন: জুন ,




লিখেছি এবং দিয়েছি । দেখুন.................

৫৬| ২৪ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ১:৫৯

বাকপ্রবাস বলেছেন: কিছুইতো থামেনা তবে যায় কোথায়?

খুব সুন্দর ছিল কবিতাটা

২৫ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:০৭

আহমেদ জী এস বলেছেন: বাকপ্রবাস ,




কিছুই থামেনা শুধু রূপান্তর ঘটে যায় ।

ধন্যবাদ মন্তব্যের জন্যে ।

৫৭| ২৪ শে জুলাই, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৩৫

ডঃ এম এ আলী বলেছেন: কবিতা পাঠে মুগ্ধ কি নেই তাতে । এ জগতে পরিপার্শ্বিকতায় ঘটে যাওয়া বিচিত্র ঘটনার ঘনঘটা , চলতি পথে অন্তরদৃষ্টি দিয়ে ফিরে দেখা ও অনুভব করা কি নেই এতে । আপনার কাব্য ছুয়ে গেল মনকে । মৃত্যুর সাথে নাম ভুলে যাওয়ার কথা ভেবে মনে পড়ে যায় কত কথা । এটা তো সকলেই জানি, যে মানুষ তার জীবদ্দশায় পাপ কর্মে লিপ্ত থেকেছে, মৃত্যুর পরে তার আত্মা নরকে গমন করে এবং যথোপযু‌ক্ত শাস্তি ভোগ করে। বিপরীতভাবে, ভাল কাজের প্রতিফল হিসেবে স্বর্গসুখ ভোগ করার সুযোগ ঘটে আত্মার। মৃত্যুর সময়ে মানুষ যা ভাবছে বা যা কামনা করছে তার ওপরও নির্ভর করে মৃত্যুর পরে তার কী গতি হবে এবং পরের জন্মে কী পরিচয় নিয়ে তাকে থাকতে হবে। মৃত্যুর পরে সহজে কেও কাওকে ভুলেনা । যে যেমন কর্ম করে, মানুষ তাকে তেমনভাবে মনে রাখে । কেও যদি নিজস্ব ঈশ্বরভক্তির জোরে নীজের সৎকর্মের জেরে ঈশ্বরের করুণা লাভ করতে পারে তাহলে মৃত্যুর পরে শ্রেষ্ঠতম স্বর্গে যাত্রার পথ তার প্রশস্ত হয়। তার গুনাবলীর কথা চিরস্মরনীয়হয়ে থাকে এই মর্তধামে, কেও ভুলেনা তাকে । কামনা করি মানুষের সুকর্মের জেরে মৃত্যুর পরে এমনি যেন ঘটে সকলের তরে ।

শুভেচ্ছা রইল

২৫ শে জুলাই, ২০১৮ সকাল ১১:৪০

আহমেদ জী এস বলেছেন: ডঃ এম এ আলী ,





এটা হঠাৎ করে আসা একটা অনুভূতি । মৃত্যুর পরে কে কোথায় নসীব হবেন জানিনে কিন্তু একটি মানুষ যখন তার নামটি মুছে ফেলেন পৃথিবীর খাতা থেকে তখন কিন্তু পৃথিবী একটু সময়ের জন্যেও থমকে দাঁড়ায় না ; এটাই প্রায় সব মানুষেরই ভবিতব্য ।

আপনার প্রার্থনা পাপী-তাপী সকল মানুষের মৃত্যুপূর্ব জীবন ছুঁয়ে যাক ।

আপনাকে এখানে পেয়ে ভালো লাগছে ।
সুস্থ্য থাকুন আর থাকুন লেখালিখিতে ।
শুভেচ্ছা নিরন্তর ।

৫৮| ২৫ শে জুলাই, ২০১৮ রাত ১:৫৮

অন্তরন্তর বলেছেন: চিরন্তন সত্য। মৃত্যুও থেমে থাকে না আর পৃথিবীর সবকিছু বা আমরা কিভাবে থেমে থাকব। একজনের জানাজা শেষে যে ভাবান্তরে এ কবিতা তা সুন্দর হয়েছে কিন্তু কষ্টটা বুকে বেঁধে আছে।

২৫ শে জুলাই, ২০১৮ দুপুর ১২:৪১

আহমেদ জী এস বলেছেন: অন্তরন্তর ,





হ্যা .... এরকমটাই হলো জীবনের অন্য পীঠ।

এমন আন্তরিক মন্তব্যে ধন্যবাদ ।

৫৯| ১১ ই আগস্ট, ২০১৮ রাত ১:২৬

সোনাবীজ; অথবা ধুলোবালিছাই বলেছেন: লাস্ট লাইনে এসে মূর্ছা গেলাম। এইতো, এভাবেই আমারও নিশ্বাস থেমে যাবে, মুছে যাবে নাম।

অসাধারণ।

১১ ই আগস্ট, ২০১৮ দুপুর ১২:৪৬

আহমেদ জী এস বলেছেন: সোনাবীজ; অথবা ধুলোবালিছাই ,




গতরের ঘাম ফেলে সোনাবীজ রোপন করে করে আর জীবনভর ধুলোবালিছাই উড়িয়ে উড়িয়ে যে চিরসত্যের দেখা মেলে তার নামই " অমোঘ মৃত্যু " । নিশ্বাস থেমে গেলে একদিন আমরাও মুছে ফেলবো নাম। শুধু পৃথিবী, পৃথিবীর মতোই ঘুরে ঘুরে যাবে নিত্যদিন !

৬০| ২৩ শে আগস্ট, ২০১৮ রাত ১০:০৬

বলেছেন: অসাধারণ লিখেছেন।

২৩ শে আগস্ট, ২০১৮ রাত ১০:২৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: ল ,



মৃত্যু খুব সাধারন একটা অবশ্যম্ভাবী প্রক্রিয়া কিন্তু তাকে নিয়ে সব ভাবনাই অসাধারণ হয় ।

মন্তব্যে ধন্যবাদের সাথে রইলো ঈদোত্তর শুভেচ্ছা ।

৬১| ০২ রা সেপ্টেম্বর, ২০১৮ দুপুর ১২:১১

নাঈম জাহাঙ্গীর নয়ন বলেছেন: আমি বুঝতে পারছিনা এত সুন্দর একটা কবিতা তাও আবার প্রিয় মানুষটির ব্লগে আমার চোখে পড়লো না! বিশ্বাস করুন আমি কয়েকবার এসেছি এই ব্লগে কোন নতুন পোস্টের সন্ধানে, কিন্তু কেবল 'ঢিল' পোস্টটিই দেখে ফিরে গেছি! কেন এমন হলো আমার মাথায় ঢুকছে নাহ!

অনেক সুন্দর কবিতা, এর প্রশংসা বলে শেষ হবার নয়, কবিতা তো এমনই অর্থবহ কথামালায় হওয়া উচিৎ। আমি অনেক চেষ্টা করেও এমন গুণী কাব্য গড়তে পারিনা কখনো, যা লেখি তা কেবল কোনরকম আপনাদের মাঝে থাকার চেষ্টা।
আমাকে আশীর্বাদ করুন শ্রদ্ধেয়, আমি আপনার মতো এমন গুণী অর্থবহ কথামালা দিয়ে কবিতা গড়তে পারি যেন।

অনেক অনেক শ্রদ্ধা আর ভালোবাসা জানবেন ভাই সবসময়।

০২ রা সেপ্টেম্বর, ২০১৮ দুপুর ১২:২৫

আহমেদ জী এস বলেছেন: নাঈম জাহাঙ্গীর নয়ন ,




বিনয়ী মন্তব্য ।
আপনিও পারবেন এবং পেরেছেন। এই তো আপনার " দর্শনে ব্যাকুল" সনেটটিতে তো আপনার অনেক উত্তরণ ঘটেছে ।
কবিতা লিখতে হলে যা নিয়ে লিখতে চান সে বিষয়ের উপরে পরিপূর্ণ আদলে তৈরী একটি গল্প মাথাতে রাখুন । তারপরে কবিতার শব্দে তাকে গাঁথুন ।
হয়ে যাবে । আজ না হোক কাল ।

নিরন্তর শুভেচ্ছা ।

৬২| ০২ রা সেপ্টেম্বর, ২০১৮ দুপুর ১২:৩৭

নাঈম জাহাঙ্গীর নয়ন বলেছেন: দারুণ একটা অমূল্য পরামর্শ পেলাম শ্রদ্ধেয় প্রিয়, কবিতার বিষয় সম্পর্কে একটা পরিপূর্ণ গল্প যদি মাথায় থাকে তবে শব্দ গ্রহণের জন্য বিপাকে পড়তে হবেনা, দারুণ উপকার করলেন শ্রদ্ধেয় প্রিয় ভাই, আমি এই পরামর্শ জীবনের শেষদিন পর্যন্ত মনে রাখবো, ভুলবো না। আবারও কৃতজ্ঞ করলেন ভাই।

আর আমার কবিতার প্রশংসা আমাকে অনেক অনুপ্রাণিত করবে সামনের দিনে।
আপনার স্নেহাশীষ যেন না হারাই প্রত্যাশা মনে।

শুভকামনা জানবেন সবসময়
সুস্থ সুন্দর সমৃদ্ধ হোক আপনার প্রতিক্ষণ প্রত্যাশা স্রষ্টায়

২০ শে ডিসেম্বর, ২০১৮ রাত ৮:৩৯

আহমেদ জী এস বলেছেন: নাঈম জাহাঙ্গীর নয়ন,



দুঃখিত দেরী হয়ে গেলো প্রতিমন্তব্য করতে, কোনও নোটিফিকেশন পাইনি তাই।
এ সম্মানটুকু দেয়ার জন্যে আমিও কৃতজ্ঞ হয়ে রইলুম।

শুভেচ্ছান্তে। ভালো থাকুন আপনিও।

৬৩| ১৯ শে ডিসেম্বর, ২০১৮ সকাল ৭:৪৮

বলেছেন: এই কবিতাটা পড়তে আবারো আসলাম আপনার বাড়িতে -


কিছু কবিতা আমায় টানে আছে এক মাদকতা এটা এমনি এক কাব্য +++

২০ শে ডিসেম্বর, ২০১৮ রাত ৯:০৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: ল,



আবারও এসেছেন দেখে ভালো লাগলো।
এমন মন্তব্যে প্লাস++++

৬৪| ৩১ শে অক্টোবর, ২০১৯ রাত ৯:২৬

আমি তুমি আমরা বলেছেন: আশ্চর্য, এই পোস্ট মিস করে গিয়েছিলাম কিভাবে? লতিফ ভাইয়ের পোস্টের সূত্র ধরে চমৎকার এই কবিতাটা পড়া হল।

মৃত্যু মানে শুধু একজনেরই মৃত্যু, একজনেরই থেমে যাওয়া।এমনকি মৃতের সবচেয়ে কাছের মানুষটির জীবনও এগিয়ে যায় জীবনের নিয়মে। কোন কিছুই থেমে থাকে না।

৩৪ তম ভাললাগা। :)

৩১ শে অক্টোবর, ২০১৯ রাত ৯:৫০

আহমেদ জী এস বলেছেন: আমি তুমি আমরা,




এটাই হলো অমোঘ নিয়তি, পৃথিবীর শ্লেট থেকে শুধু মুছে ফেলা নাম।
ঠিকই বলেছেন - "মৃতের সবচেয়ে কাছের মানুষটির জীবনও এগিয়ে যায় জীবনের নিয়মে।"

এতোদিন পরে এসে ভালোলাগা জানিয়ে গেলেন দেখে ধন্যবাদ।

৬৫| ০১ লা ফেব্রুয়ারি, ২০২০ রাত ৯:৫৯

মিরোরডডল বলেছেন: নির্মম সত্যি । কিছুই থামে না শুধু যে যাবার সে চলে যায় ।
কিন্তু খুব কাছের মানুষটা যে হারায় তাঁর জীবনটা তাঁর পৃথিবীটা কিন্তু কিছু সময়ের জন্য থেমে যায় ।
যদিও অল্প সময় পরেই জীবন চলে জীবনের নিয়মে । এটাই বাস্তবতা ।

০১ লা ফেব্রুয়ারি, ২০২০ রাত ১০:০৯

আহমেদ জী এস বলেছেন: মিরোরডডল,




ধন্যবাদ, বছরেরও বেশী পুরোনো এই পোস্টে মন্তব্যের জন্যে।
কেবল একজন থেমে যায়, মুছে ফেলে নাম; এটা যেমন বাস্তব তেমনই নির্মম এক সত্য।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.