নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

একজন সুখী মানুষ, স্রষ্টার অপার ক্ষমা ও করুণাধন্য, তাই স্রষ্টার প্রতি শ্রদ্ধাবনত।

খায়রুল আহসান

অবসরে আছি। কিছু কিছু লেখালেখির মাধ্যমে অবসর জীবনটাকে উপভোগ করার চেষ্টা করছি। কিছু সমাজকল্যানমূলক কর্মকান্ডেও জড়িত আছি। মাঝে মাঝে এদিক সেদিকে ভ্রমণেও বের হই। জীবনে কারো বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ করিনি, এখন তো করার প্রশ্নই আসে না। জীবন যা দিয়েছে, তার জন্য স্রষ্টার কাছে ভক্তিভরে কৃতজ্ঞতা জানাই। যা কিছু চেয়েও পাইনি, এখন বুঝি, তা পাবার কথা ছিলনা। তাই না পাওয়ার কোন বেদনা নেই।

খায়রুল আহসান › বিস্তারিত পোস্টঃ

আপন কক্ষপথে ঘূর্ণায়মান জ্যোতিষ্ক

২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৮:৫০

মহাশূন্যের অনন্ত অন্তরীক্ষে আমরা সবাই
একেকটি ঘূর্ণায়মান জ্যোতিষ্ক।
জন্মাবধি আপন কক্ষপথ ধরে ঘুরছি সবাই;
কখনো একাকী, কখনো যুগলবন্দী, আবার
কখনো গুচ্ছদলে আবদ্ধ গ্রহানুপুঞ্জের মত
হাত ধরাধরি করে। একবার হাত ছুটে গেলে
ছিটকে চলে যাই বহু দূরে, দূর হতে দূরান্তরে,
নতুন কোন কক্ষপথ বেয়ে।

আমাদের পথ হয়ে যায় ভিন্ন। ভিন্ন পথগুলো
ঘুরতে ঘুরতে যদিওবা কখনো
খুব কাছাকাছি চলে আসে,
তবুও ওরা কোনদিন আর এক হয়ে যায় না।
তাই যুগলচ্যুত, দলছুট আমরা
নিয়তিকে মেনে নিয়ে ঘুরতে থাকি মৃত্যু অবধি
আপন কক্ষপথ বেয়ে, দূর থেকে পরস্পরকে
ভালবাসা আর স্মৃতির আচ্ছাদনে ঢেকে রেখে।


ঢাকা
২৬ নভেম্বর ২০১৮
সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত।

মন্তব্য ৫২ টি রেটিং +১৭/-০

মন্তব্য (৫২) মন্তব্য লিখুন

১| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:১০

বিদ্রোহী ভৃগু বলেছেন: দারুন!

চমৎকার ভাবনা আর উপস্থাপনায় মুগ্ধ :)
আসলেই আমরা প্রত্যেকেই আপনাপন কক্ষপথেই ঘুরছি নিয়ত!

+++

২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১১:২১

খায়রুল আহসান বলেছেন: আপনার কাছ থেকে প্রথম মন্তব্য এবং প্রথম প্লাসটি পেয়ে প্রভূত আনন্দিত এবং অনুপ্রাণিত হ'লাম।
আমাদের প্রত্যেকের কক্ষপথ এবং পরিক্রমণকাল সুনির্দিষ্ট। আমরা সেই পথেই ঘুরছি, সেই সময়কাল পর্যন্ত ঘুরতেই থাকবো।

২| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:১১

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: অপূর্ব ! দারুন অভিব্যক্তি। গ্রহাণুপুঞ্জ হয়ে আমরা ঘুরতে থাকি দূর থেকে দুরান্তরে । কবিতায় মুগ্ধতা++

বিনম্র শ্রদ্ধা ও শুভকামনা স্যার আপনাকে।

২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ দুপুর ১২:৫৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতার প্রশংসায় এবং প্লাসে অনুপ্রাণিত হ'লাম। কবিতা পাঠান্তে নিজের ভাবনাটুকুর কথা জানিয়ে যাবার জন্য অশেষ ধন্যবাদ। +

৩| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:১৮

আব্দুল্লাহ্ আল মামুন বলেছেন: মনোমুগ্ধকর কবিতা।

২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ দুপুর ২:১৮

খায়রুল আহসান বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ। প্রীত হ'লাম। :)

৪| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:২০

সাইন বোর্ড বলেছেন: ভাবনা ভাল লাগল, তবে বর্ণনা খুব বেশি স্ট্রেইট হয়ে গেছে বলে মনে হচ্ছে ।

২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৪:৫৯

খায়রুল আহসান বলেছেন: তবে বর্ণনা খুব বেশি স্ট্রেইট হয়ে গেছে বলে মনে হচ্ছে - হ্যাঁ, তা স্ট্রেইট হয়ে গেছে বৈকি!
মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ।

৫| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:২০

চাঁদগাজী বলেছেন:


মহাজগতের অংশ হিসেবে নিজকে ও মানব জাতির ভুমিকার সত্যতার অনুধাবন

২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৫:১৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতার ভেতরে প্রবেশ করে আপনার উপলব্ধিটুকু শেয়ার করার জন্য ধন্যবাদ, চাঁদগাজী

৬| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:৪৬

মোস্তফা সোহেল বলেছেন: কবিতা পড়ে খুব লেগেছে ভাইয়া।তবে কবিতা পড়ার শেষে কেমন জানি মন খারাপও হল।
প্রিয় মানুষ গুলোর সাথে মৃত্যুঅবধি একই কক্ষপথে ঘুরতে পারতাম তবে কতই না ভাল হত।
অথচ বার বার আমরা সবাই একই পথ থেকে ছিটকে পড়ি ভিন্ন ভিন্ন পথে।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:২৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতা পড়ে খুব লেগেছে ভাইয়া - খুব খুশী হ'লাম আপনার এ উচ্ছ্বাসভরা ভাল লাগার কথা জেনে। আর তার চেয়েও বেশী খুশী হ'লাম কবিতাটি আপনি "প্রিয়" তালিকায় তুলে নিয়েছেন দেখতে পেয়ে। কবিতার ভাবদর্শন নিয়ে আপনার উপলব্ধিটাও ভাল লেগেছে।
অনেক, অনেক ধন্যবাদ এবং শুভেচ্ছা!!!

৭| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:৪৭

নজসু বলেছেন:



অপূর্ব সন্নিবেশন মহাকাশের সদস্য ও মানবকূলের।

আমরা সবাই ঘূর্ণায়মান জ্যোতিষ্ক।

একবার হাত ছুটে গেলে
ছিটকে চলে যাই বহু দূরে,
দূর হতে দূরান্তরে,
নতুন কোন কক্ষপথ বেয়ে।


দারুণ!!

আমাদের পথ হয়ে যায় ভিন্ন।
ভিন্ন পথগুলো ঘুরতে ঘুরতে যদিওবা কখনো
খুব কাছাকাছি চলে আসে,
তবুও ওরা কোনদিন আর এক হয়ে যায় না।

কিন্তু
আপন কক্ষপথ বেয়ে, দূর থেকে পরস্পরকে
ভালবাসা আর স্মৃতির আচ্ছাদনে ঢেকে রেখে।


আমার খুব ভালো লেগেছে প্রিয় কবি।

প্রিয়জন যত দূরেই থাকনা কেন স্মৃতির আচ্ছাদনে ভালোবাসার
টান অব্যহত থাকেই।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:৪১

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতা থেকে একাধিক উদ্ধৃতি এবং সেই সাথে আপনার নিজস্ব ভাবনাটুকু যোগ করে দেয়ার জন্য অশেষ ধন্যবাদ।
মন্তব্যে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা----

৮| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১০:৪০

মোঃ মাইদুল সরকার বলেছেন:
রূপকঅর্থে জীবনের এই পথচলা সুন্দরভাবে ফুটে উঠেছে।

ভাল থাকুন।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:৫৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: রূপকঅর্থে জীবনের এই পথচলা সুন্দরভাবে ফুটে উঠেছে - অনেক ধন্যবাদ, এই প্রশংসাটুকুর জন্য।
ভাল থাকুন, শুভকামনা।

৯| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১১:১৪

মলাসইলমুইনা বলেছেন: খায়রুল ভাই,
যাপিত জীবনের বয়ে চলার মেটাফোরটা খুব ভালো লেগেছে ।একটা কথা বলবো ? আমরাতো মহাশূন্যের অন্তরীক্ষে বাস করি না ।আমরা পৃথিবীর মাটির মানুষ । তাই আমাদের মহাশূন্যের অন্তরীক্ষের জ্যোতিস্ক ভাবতে কেমন যেন লাগলো।সময়কে আকাশের মতো ভাবলে আমাদের সেখানকার জ্যোতিস্ক ভাবলেই মনে হয় বেশি ভালো হতো। তাতে সেকেন্ড প্যারার ভাবটার সাথে সেটা আরো বেশি মিলে যেত । খুবই নিজের ভাবনাটা জানালাম। যা বলেছি সেটা সম্পূর্ণই অকবির দুর্বল মতামত হিসেবেই ভাবার অনুরোধ থাকলো ।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১০:০৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: পোয়েটিক লাইসেন্স বলে একটা কথা আছে না? :) সেটারই ছত্রছায়ায় কবিতাটি লিখেছি।
খুবই নিজের ভাবনাটা জানালাম - খুবই ভাল কাজ করেছেন আপনার ভাবনার এ কথাটি জানিয়ে। ভবিষ্যতে কাজে দেবে।
কবিতা পাঠ এবং মন্তব্যের জন্য অশেষ ধন্যবাদ।

১০| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১১:৫৮

মিথী_মারজান বলেছেন: চমৎকার দার্শনিক কবিতা।
জীবন কক্ষপথের গন্ডিতে সর্বদা চলমান,অথচ মন!
কক্ষপথের গন্ডি ছাড়িয়ে দ্যূতি ছড়ায় ভালোবাসার।

খুব সুন্দর!:)

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১০:১৮

খায়রুল আহসান বলেছেন: জীবন কক্ষপথের গন্ডিতে সর্বদা চলমান,অথচ মন!
কক্ষপথের গন্ডি ছাড়িয়ে দ্যূতি ছড়ায় ভালোবাসার।
- বাহ, আপনার এ দুটো লাইনও তো কত সুন্দর!
কবিতার প্রশংসায়, প্লাসে অনেক অনুপ্রাণিত হ'লাম। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা!!!!

১১| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ দুপুর ১২:১১

সম্রাট ইজ বেস্ট বলেছেন: চমৎকার জীবনবোধ! তেমনি দারুণ লেখনী! কোন আড়ষ্টতা নেই, পুরো কবিতা যেন সাজানো চিত্র আর; সেই চিত্রকে অনায়াসে হৃদয়ঙ্গম করলাম। খুব ভালো।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১০:৫০

খায়রুল আহসান বলেছেন: পুরো কবিতা যেন সাজানো চিত্র আর; সেই চিত্রকে অনায়াসে হৃদয়ঙ্গম করলাম - চমৎকার এ প্রশংসাব্যঞ্জক মন্তব্যের জন্য অশেষ ধন্যবাদ। মন্তব্যে এবং প্লাসে অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা!!!!

১২| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ দুপুর ১:২৬

রাজীব নুর বলেছেন: গতকাল একটা মুভি দেখেছি-
চারজন চাঁদে যায়। চাঁদে গিয়ে ভয়াবহ বিপদে পড়ে। তাদের রকেটের তেল শেষ হয় যায়।
তারা হেড অফিসে যোগাযোগ করে ফুয়েল চায়।
এদিকে চাঁদের মাটিতে আগে কে পা রাখবে তা নিয়ে তাদের মধ্যে ঝগড়া বেধে যায়।
সব মিলিয়ে মুভিটা দেখে চরম মেজাজ খারাপ হয়েছে। পুরো সময়টা অপচয় হয়েছে।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১১:৪৩

খায়রুল আহসান বলেছেন: পুরো সময়টা অপচয় হয়েছে - জানিনা, এ মন্তব্যটি দিয়ে এটাই বুঝাতে চাচ্ছেন কিনা যে আমার এ কবিতাটি পড়ে আপনার সময়ের অপচয় হয়েছে। যদিও এটা ছাড়া কবিতার সাথে মন্তব্যের আর কোন প্রাসঙ্গিকতা খুঁজে পাচ্ছিনা, তবুও মনে হয় শুধু এ কথাটুকু বলার জন্য আপনার তো এত কথা বলার প্রয়োজন ছিলনা; হয়তো অন্য কিছু বলতে চেয়েছেন।

১৩| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ দুপুর ১:৩০

আর্কিওপটেরিক্স বলেছেন: চমৎকার কবিতা !

জীবনকে আসলেই নানা উপমায় ফেলা যায়....

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ১১:৫৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতার প্রশংসায় প্রীত হ'লাম। মন্তব্যে এবং প্লাসে অনুপ্রাণিত।
অনেক ধন্যবাদ এবং শুভকামনা...

১৪| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ দুপুর ২:৫০

করুণাধারা বলেছেন: আমাদের পথ হয়ে যায় ভিন্ন। ভিন্ন পথগুলো
ঘুরতে ঘুরতে যদিওবা কখনো
খুব কাছাকাছি চলে আসে,
তবুও ওরা কোনদিন আর এক হয়ে যায় না।
তাই যুগলচ্যুত, দলছুট আমরা
নিয়তিকে মেনে নিয়ে ঘুরতে থাকি মৃত্যু অবধি
আপন কক্ষপথ বেয়ে, দূর থেকে পরস্পরকে
ভালবাসা আর স্মৃতির আচ্ছাদনে ঢেকে রেখে।


এই কয়টা লাইন বার বার পড়লাম। আমাদের জীবন এমনই! আরেকটা কবিতা মনে পড়ল এটা পড়ে:

..........
পরম আত্মীয় বলে যারে মনে মানি,
তারে আমি কতদিন কতটুকু চিনি
অসীম কালের মাঝে তিলেক মিলনে
পরশে জীবন তার আমার জীবনে!
যতটুকু লেশমাত্র চিনি দুজনায়
তাহার অনন্ত গুণ চিনি নাকো হায়।
দুজনের একজন একদিন যবে,
বারেক ফিরাবে মুখ এ নিখিল ভবে।
আর কভু ফিরিবেনা মুখোমুখি পথে
কে কার পাইবে সাড়া অনন্ত জগতে.........

চমৎকার কবিতায় লাইক!!

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৩:৩৮

খায়রুল আহসান বলেছেন: আমার কবিতায় আমি যে চিত্রটি আঁকতে চেষ্টা করেছি, কবিগুরু তাঁর "ক্ষণমিলন" এর এ ক'টি চরণে বোধ হয় সেটিই এঁকে গেছেন প্রায় শতাব্দীকাল আগে। আর আপনার মত একজন কবিতাপ্রেমী পাঠক যদি আজ আমার এ কবিতায় না আসতেন, আমি বোধহয় এ ব্যাপারে চির অজ্ঞাতই থেকে যেতাম। অনেক অনেক ধন্যবাদ আপনাকে, আপনার মনে পড়ে যাওয়া কবিগুরু'র উদ্ধৃত কবিতাংশটুকুর জন্য। বলাই বাহুল্য, দুটি উদ্ধৃতির মাঝখানে দেয়া আপনার ঐ একটি লাইনই আমাকে প্রভূত আনন্দ ও প্রেরণা দিয়ে গেল।

১৫| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৫:৫৩

করুণাধারা বলেছেন: রবীন্দ্রনাথ আমার প্রিয় কবি; তার কবিতার সাদামাটা বাক্যের মধ্যে জীবন-দর্শন লুকিয়ে থাকে; আপনার কবিতার বাক্যেও জীবন দর্শন খুঁজে পাওয়া যায়!

না, আমি কবিগুরুর সাথে আপনার তুলনা করছি না, কেবল যে মিল আছে তার কথা বলছি!

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৪:০২

খায়রুল আহসান বলেছেন: কি যে বলি! আমাদের সবার ভাবনাগুলোই তো তিনি ভাবতেন!
আপনার মনযোগী পাঠ আমাকে মুগ্ধ করে এবং মন্তব্যগুলো অনিঃশেষ প্রেরণা যুগিয়ে যায়।
অনেক, অনেক ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

১৬| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ৯:২৬

কথাকথিকেথিকথন বলেছেন:






মূলত হৃদয়ের খুব গভীরে মানুষ একা। দূরত্বে থেকেই যেন জীবনের সকল ঋণ শোধ করতে চায়! অথচ হয়না সেই অদৃশ্য পর্দা ভেদ। আপন কক্ষপথে থেকেই কক্ষপথ শূন্য করে দিয়ে যায়।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৪:২৮

খায়রুল আহসান বলেছেন: খুবই ভাল লাগলো আপনার এ জীবন দর্শনের কথাগুলো। মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

১৭| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ১০:১১

বিচার মানি তালগাছ আমার বলেছেন: বাহ!

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৬:৪৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: ধন্যবাদ, প্রীত হ'লাম।

১৮| ২৭ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ১০:৪২

জাহিদ অনিক বলেছেন: ভিন্ন পথগুলো
ঘুরতে ঘুরতে যদিওবা কখনো
খুব কাছাকাছি চলে আসে,
তবুও ওরা কোনদিন আর এক হয়ে যায় না।
চমৎকার লেগছে এই লাইনগুলো।
আপনার কবিতায় সবসময়েই একটা ভালোলাগা কাজ করে।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:০০

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতা থেকে উদ্ধৃতির জন্য অশেষ ধন্যবাদ। মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

১৯| ২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ১২:৫৪

প্রামানিক বলেছেন: মনোমুগ্ধকর কবিতা, খুব ভালো লাগল।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:১৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতাটি আপনার ভাল লেগেছে জেনে খুশী হ'লাম, প্রামানিক। কবিতার প্রশংসায় প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

২০| ২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ১:০৪

আরোগ্য বলেছেন: স্যার, আপনার কবিতা ব্লগের অন্যান্য কবিদের চেয়ে যথেষ্ট আলাদা। পাঠে তৃপ্তি পাওয়া যায়। লিটারেরি টার্মসের ব্যবহার দারুণ হয়েছে।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:২৫

খায়রুল আহসান বলেছেন: "লিটারেরি টার্মসের ব্যবহার দারুণ হয়েছে" - আপনার মন্তব্যের এ অংশটুকুও অন্যান্য পাঠকদের মন্তব্য থেকে "যথেষ্ট আলাদা" হয়েছে। :)
যে কোন লেখকের জন্য এমন মন্তব্য পাঠে প্রেরণা পাওয়া যায়।
মন্তব্যে এবং প্লাসে স্পর্শিত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

২১| ২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ১:১৩

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



পৃথিবীর প্রতিটি মানুষ জন্ম থেকে মৃত্যু পর্যন্ত নিজ নিজ কক্ষপথে ঘুরে। এটাই জীবনচক্র। এ চক্র ভেদ করার সামর্থ্য মানুষের নেই। আমাদের ক্ষমতার সীমাবদ্ধতা আছে বলেই মৃত্যু অনিবার্য হয়।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ সন্ধ্যা ৭:৫১

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতা পড়ে এমন চমৎকার একটা উপলব্ধির কথা এখানে শেয়ার করে যাবার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ।
মন্তব্যে প্রীত ও অনুপ্রাণিত। শুভকামনা রইলো...

২২| ২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ দুপুর ২:৩৫

হাবিব স্যার বলেছেন: অতীব তৃপ্তিকর লেখা....................

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ৮:২২

খায়রুল আহসান বলেছেন: ধন্যবাদ হাবিব স্যার, আপনার মন্তব্যটাও অতীব মনোমুগ্ধকর। মন্তব্যে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
শুভকামনা রইলো...

২৩| ২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ৯:৪২

শাহাদাৎ হোসাইন (সত্যের ছায়া) বলেছেন: অসাধারণ কবিতা। মানুষের ছুটে চলা, একমুখী হওয়া সবকিছু উঠে এসেছে।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ৯:৪৫

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতা পড়ে এমন চমৎকার একটা উপলব্ধির কথা এখানে শেয়ার করে যাবার জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ।
মন্তব্যে প্রীত ও অনুপ্রাণিত। শুভকামনা রইলো...
আপনার ধর্মের একাল সেকাল এবং ভবিষ্যৎের আকাল - পোস্ট পড়ে একটা মন্তব্য রেখে এসেছিলাম। আশাকরি, একবার সময় করে দেখে আসবেন। :)

২৪| ২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ৯:৫৯

রাকু হাসান বলেছেন:



আপনার কবিতা মানেই ভিন্ন কিছু । ন্যাকামি মুক্ত । প্রকৃতি,জীবনবোধের ছোঁয়া । কবিতা ভালো লেগেছে । আবারও দুঃখ প্রকাশ করছি । প্রতি উত্তর দেখার জন্য অনুরোধ রেখে যাচ্ছি ।

২৮ শে নভেম্বর, ২০১৮ রাত ১০:৩৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতা পড়ার জন্য ধন্যবাদ। কবিতার প্রশংসায় এবং প্লাসে অনেক অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ভাল থাকুন, শুভকামনা....

২৫| ২৯ শে নভেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:৪৯

ধ্রুবক আলো বলেছেন: মিথী মারজান এর মত করে, চমৎকার দার্শনিক কবিতা। খুবই অর্থবহুল। শেষের লাইন গুলো পড়লে হৃদযন্ত্রে চিনচিন করে ওঠে।

কবিতায় ভালো লাগা +++

২৯ শে নভেম্বর, ২০১৮ দুপুর ২:১১

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতাটি পড়ার জন্য এবং কবিতার শেষের লাইনগুলো সম্পর্কে ব্যক্তিগত অনুভূতি ব্যক্ত করার জন্য ধন্যবাদ। কবিতার প্রশংসায় এবং প্লাসে অনেক অনুপ্রাণিত হ'লাম।
আশাকরি ভাল আছেন। ভাল থাকুন, শুভকামনা....

২৬| ০২ রা ডিসেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৫:০০

ধ্রুবক আলো বলেছেন: ভাই ভালো আছি, তবে চাকুরী নিয়ে বেশ ব্যাস্ত আছি। আপনি কেমন আছেন?
সদা সুস্থতা কামনা করি।

০৩ রা ডিসেম্বর, ২০১৮ সকাল ৯:১৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: আলহামদুলিল্লাহ, আমিও ভাল আছি। ধন্যবাদ।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.