নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

একজন সুখী মানুষ, স্রষ্টার অপার ক্ষমা ও করুণাধন্য, তাই স্রষ্টার প্রতি শ্রদ্ধাবনত।

খায়রুল আহসান

অবসরে আছি। কিছু কিছু লেখালেখির মাধ্যমে অবসর জীবনটাকে উপভোগ করার চেষ্টা করছি। কিছু সমাজকল্যানমূলক কর্মকান্ডেও জড়িত আছি। মাঝে মাঝে এদিক সেদিকে ভ্রমণেও বের হই। জীবনে কারো বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ করিনি, এখন তো করার প্রশ্নই আসে না। জীবন যা দিয়েছে, তার জন্য স্রষ্টার কাছে ভক্তিভরে কৃতজ্ঞতা জানাই। যা কিছু চেয়েও পাইনি, এখন বুঝি, তা পাবার কথা ছিলনা। তাই না পাওয়ার কোন বেদনা নেই।

খায়রুল আহসান › বিস্তারিত পোস্টঃ

বিবেকের ডাক – কেউ শোনেনা কেউ শোনে

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:৩৭

মানুষের মন, নিত্য অপরাধপ্রবণ
পাপ পানে ছুটে চলে যখন তখন।
মনের লাগাম ধরা বিবেকের হাতে
বিশ্বাসীরা ফিরে আসে তার কশাঘাতে।

ইবলিশ বসত গড়ে মানুষের মনে
ইশারায় ডাকে তারে শুধু ক্ষণে ক্ষণে।
যেই না বিবেক তার ঘুমিয়ে পড়ে,
ইবলিশ তখনই এসে হাতটি ধরে।

ইন্ধন জোগায় তারে নানা প্রলোভনে,
মনের গহীনে ঢুকে অতি সন্তর্পণে।
বিবেক জাগ্রত হয়ে তখনি তখনি,
মানুষের বুকে তুলে ফিরিবার ধ্বনি।

উত্তমেরা সাড়া দেয় সেই ইশারায়,
অধমেরা সেই ডাক শুনতে না পায়।
এভাবেই কেউ বাঁচে কেউ ডুবে যায়
আকন্ঠ নিমজ্জিত হয়ে পঙ্কিলতায়।

(গতকাল শুক্রবার জুম্মার নামাজে ইমাম সাহেবের খুৎবা শুনে কথাগুলো মনে আসে।)


ঢাকা
০২ নভেম্বর ২০১৯

মন্তব্য ৮৭ টি রেটিং +২৯/-০

মন্তব্য (৮৭) মন্তব্য লিখুন

১| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:১০

নতুন নকিব বলেছেন:



চমৎকার কবিতায় মুগ্ধতাসহ +++

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:১৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতা পাঠের জন্য ধন্যবাদ। প্রথম মন্তব্য এবং প্রথম প্লাস পেয়ে প্রাণিত হ'লাম।
ব্লগে কবিতার পাঠক সীমিত। সেই সীমিত পাঠকের সারিতে সামনে এসে সামিল হবার জন্য আবারো ধন্যবাদ জানাচ্ছি।
শুভকামনা....

২| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:২৬

ধ্রুবক আলো বলেছেন: মানুষের মন খুবই দুর্বল। তাই খুব সহজেই শয়তানের ধোঁকায় বশবর্তী হয়ে যায়।


কবিতায় একরাশ মুগ্ধতা ++++++

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:২৯

খায়রুল আহসান বলেছেন: হ্যাঁ, সেটাই। তাই বারে বারে নিজেকে নিজ বিবেকের সম্মুখীন করার অভ্যেস গড়ে তুলতে হয়, সেই ছোটবেলা থেকেই।

৩| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:৩৩

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: একটু আগেই কবিতাটি অন্যত্র পড়েছি। কাজেই হাজিরা দিলাম স্যার। অনুভবে মুগ্ধতা।
শ্রদ্ধা ও শুভকামনা আপনাকে।

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:৪৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: হাজিরা গৃহীত হলো। টাইপো সংশোধনে সহায়তা করার জন্য আন্তরিক ধন্যবাদ।

৪| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:৩৩

স্রাঞ্জি সে বলেছেন:

খায়রুল ভাই _______



সুন্দর সব রাশি রাশি কথা মালা। ভালো লেগেছে কবিতার প্লট। তবে কেমন জানি মনে হচ্ছে। কবিতাটা পাঠ করতে গিয়ে তেমন একটা জোশ পাইনি।

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:৫০

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতাটা যতটা না জোশের, তার চেয়ে বেশী "হুঁশের"। তাই হয়তো এখানে আপনি তেমন জোশ পান নি। সেটা ঠিক আছে, না পাবারই কথা।

৫| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:২১

রাজীব নুর বলেছেন: অত্যন্ত মনোমুগ্ধকর।

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:০৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ। মন্তব্যে প্রীত হ'লাম।

৬| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:০৫

আখেনাটেন বলেছেন: বিবেকের দংশন না হলে পাপকাজ করা থেকে বিরত থাকা মুশকিল। আর এই বিবেকটা শিশুর শরীরে প্রোথিত হয় পরিবার থেকে। আমার মতে আজকের বেশির ভাগ পরিবারে মনে হয় মূল্যবোধের চর্চা নেই।

অথচ এখন সমাজটাও সেভাবে গড়ে উঠছে। যে দেশের প্রধান প্রশাসক বিবেককে জলে গুলে খেয়ে ফেলেছে সেখানে এই বোধ নিয়ে কথা বলাটাও কিছুটা বাতুলতা।

অসাধারণ ছন্দময় কবিতা পড়ে ভালো লাগল।

*টাইপো আছে কী?= অপরাধ প্রবন < অপরাধপ্রবণ; সন্তর্পনে < সন্তর্পণে;

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৪:২২

খায়রুল আহসান বলেছেন: আমার মতে আজকের বেশির ভাগ পরিবারে মনে হয় মূল্যবোধের চর্চা নেই - কথাটা সবার ক্ষেত্রে প্রযোজ্য না হলেও আজ আমাদের সমাজের বেশীরভাগ পরিবারের জন্যই সত্য।
হ্যাঁ, টাইপো ছিল। সেগুলোকে সম্পাদনা করে নিয়েছি। ধরিয়ে দেয়ার জন্য ধন্যবাদ।
মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত।
শুভকামনা---

৭| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:১১

স্বপ্নবাজ সৌরভ বলেছেন: এভাবেও লিখে ফেলা যায়। প্রতি জুম্মায় খুৎবা শুনি কিন্তু এমন মাথায় আসেনি কখনো।
মুগ্ধতা আপনার লেখায়। ++

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:০৯

খায়রুল আহসান বলেছেন: আপনার এ প্রশংসাটুকু আমাকে অনেক অনুপ্রাণিত করে গেল। অনেক ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা!

৮| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:১১

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: কবিতার ভাবনা ও প্রকাশ মনোমুগ্ধকর।
+

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৫৩

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতার ভাবনা ও প্রকাশ মনোমুগ্ধকর - ছোট্ট একটি মন্তব্য, কিন্তু ব্যাপক প্রেরণাদায়ক।
মন্তব্যে এবং প্লাসে অনুপ্রাণিত হ'লাম। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা....

৯| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:২৫

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন:





খায়রুল আহসান ভাই,
সময়টা এখন অপেক্ষার, এছাড়া আর কিছু করার আছে বলে মনে হয় না।

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:১৯

খায়রুল আহসান বলেছেন: প্রকৃত অর্থে জন্মের পর থেকেই তো সময়টা অপেক্ষার। আমরা ধরেই নেই যে আমরা সবাই বুড়ো হবার পরেই তবে ওপারে চলে যাবো। অনেকের ক্ষেত্রেই তা হয় না।
আমাদের সবার উচিত, দৈনিক চব্বিশ ঘন্টার মধ্যে অন্ততঃ মিনিট বিশেক চুপ করে বসে থেকে স্বীয় বিবেকের বয়ান শোনার চেষ্টা করা, শুনতে পারলে বিবেকের সে অনুশাসন মেনে চলা।
মন্তব্য এবং প্লাসের জন্য ধন্যবাদ, অনুপ্রাণিত।

১০| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৪৩

করুণাধারা বলেছেন: বিবেকের ধনী সবাই যদি শুনতে পেত, তাহলে আজ এত অমানুষে চারপাশ ভরা থাকত না...

কবিতার কথাগুলো খুব সুন্দর! +++

০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:২৫

খায়রুল আহসান বলেছেন: কথাটা ঠিক বলেছেন। সবার উচিত, বিবেকের ধ্বনি শোনার জন্য কান পেতে থাকা।
মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত।

১১| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:১৩

মলাসইলমুইনা বলেছেন: খায়রুল ভাই,

আমাদের জীবনের দ্বান্দ্বিক চালচিত্রের চমৎকার কাব্য হয়েছে । এই দ্বন্দ্বের থেকে ঠিক পথ চিনে নিতে পারলে কত ঝামেলা যে জীবনে কমতো আমাদের ! আপনার নাম না থাকলেও এটা আপনার কবিতা সেটা সবাই বুঝতে পারতো । কবিতায় আপনার কবিত্বের গারো ছাপ কোথায় যেন লুকিয়ে আছে ! ভালো থাকবেন ।

০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৮:১০

খায়রুল আহসান বলেছেন: এই দ্বন্দ্বের থেকে ঠিক পথ চিনে নিতে পারলে কত ঝামেলা যে জীবনে কমতো আমাদের - ঠিক বলেছেন, নিত্য দ্বন্দ্বের এই দোটানা থেকে মুক্ত থাকতে পারাটা এই পার্থিব জীবনে এক বিরাট সাফল্যই বটে। এ জন্য অবশ্য আত্ম-আধ্যাত্মিক অন্বেষণ প্রয়োজন।
কবিতা পাঠ এবং চমৎকার মন্তব্য লিখে প্রেরণা দিয়ে যাবার জন্য অনেক ধন্যবাদ।

১২| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৩২

নীল আকাশ বলেছেন: দারুণ লিখেছেন। এটাই পরম সত্য। আল্লাহ তাই আমাদেরকে আগেই সর্তক করে দিয়েছেন এভাবে-
আল্লাহ রাব্বুল আলামীন পবিত্র কুরআনে বলেন : নিশ্চয় সে ও তার দলবল তোমাদেরকে দেখে, যেখানে তোমরা তাদেরকে দেখনা। ( সূরা আল আরাফ : আয়াত-২৭ )
জুম্মা নামাযের খুতবা শুনা ওয়াজীব।
ধন্যবাদ।

০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৯:২০

খায়রুল আহসান বলেছেন: জুম্মা নামাযের খুতবা শুনা ওয়াজীব - চেষ্টা করি, তা মন দিয়ে শুনতে। আজকাল অনেক মাসজিদেই শিক্ষিত ইমাম সাহেব থাকেন। শিক্ষিত লোকের কথা শুনতে ভাল লাগে। যুক্তি নির্ভর কথা সহজে মস্তিষ্কে প্রবেশ করে।
মন্তব্যে এবং প্লাসে অনুপ্রাণিত। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা....

১৩| ০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:০২

কিরমানী লিটন বলেছেন: কবিতার চাওয়াগুলো স্নিগ্ধতা ছড়াক যাপিত জীবনের পথচলায়। অদ্ভুত ভালোলাগায় মন ভরে গেলো কানায় কানায়.....
শুভকামনা প্রিয় খায়রুল আহসান ভাই, শ্রদ্ধায়- ভালোবাসায়......

০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:১৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতার চাওয়াগুলো স্নিগ্ধতা ছড়াক যাপিত জীবনের পথচলায় - আমার এ কবিতাটিতে সুন্দর একটি মন্তব্য রেখে যাবার জন্য অশেষ ধন্যবাদ জানাচ্ছি। মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

১৪| ০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:১৭

কাওসার চৌধুরী বলেছেন:



এদেশের মানুষের একটি অংশ ইবলিশ শয়তানের চেয়েও ভয়ংকর। ইবলিশ শয়তান তাদের কাছে পরাজিত হয়ে চলে গেছে। মানুষের চেয়ে ইবলিশ শয়তান বিবেকবান। মানুষ পঁচে গেলে এর দুষ্টচক্রের প্রভাব সীমাহীন।

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:২৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: মানুষ পঁচে গেলে এর দুষ্টচক্রের প্রভাব সীমাহীন - এবং তা কতটা সীমাহীন হতে পারে, তা কল্পনাও করা যায় না।
মন্তব্য এবং প্লাসের জন্য ধন্যবাদ। প্রীত ও অনুপ্রাণিত।

১৫| ০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৯:৫৩

রাজীব নুর বলেছেন: লেখক বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ। মন্তব্যে প্রীত হ'লাম।


ভালো থাকুন। সুস্থ থাকুন।

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:৪৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: আপনিও ভাল থাকুন, শুভকামনা----

১৬| ০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:০৮

মোঃ মাইদুল সরকার বলেছেন: বাহ চমৎকার।

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:১৮

খায়রুল আহসান বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ, মন্তব্যে প্রীত হ'লাম।

১৭| ০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:২৬

অব্যক্ত কাব্য বলেছেন: চমৎকার

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:০১

খায়রুল আহসান বলেছেন: বোধকরি, অনেকদিন পরে এলেন আমার কোন লেখায়। আশাকরি ভাল আছেন।
মন্তব্যের জন্য অনেক ধন্যবাদ। মন্তব্যে অনুপ্রাণিত হ'লাম।

১৮| ০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:১৭

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: সুন্দর ।+

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:০৫

খায়রুল আহসান বলেছেন: "সুন্দর +" মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ। প্লাসে অনুপ্রাণিত।

১৯| ০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৩৪

মোস্তফা সোহেল বলেছেন: দারুন কবিতা।++

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৩১

খায়রুল আহসান বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ। মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত।
শুভকামনা---

২০| ০৩ রা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:০২

সোহানী বলেছেন: জেকিল এন্ড হাইড....।

প্রতিটি মানুষের মাঝেই তা আছে। কিন্তু নিজের বিবেক বিচেনাবোধ, শিক্ষা, পরিবেশ, মনুষত্ব, মানবিক বোধ, ভালোবাসা সব কিছুই মি: হাইডকে রুখে দেয়। কিন্তু যাদের এসব বোধের অভাব আছে তারাই ড: জেকিলকে রুখে দেয়।

আপনার কবিতায় সবসময়ই একটি ম্যাসেজ থাকে যা আমার খুব ভালোলাগে।

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:০১

খায়রুল আহসান বলেছেন: জেকিল এন্ড হাইড.... তুলনাটা ঠিকই দিয়েছেন। প্রতিটি মানুষের মাঝেই তা আছে!
মন্তব্যের শেষ অংশটুকু আমারও খুব ভাল লাগলো। মন্তব্যে এবং প্লাসে অনুপ্রাণিত হ'লাম।
শুভকামনা....

২১| ০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ২:৩৩

মুক্তা নীল বলেছেন:
শ্রদ্ধেয় ,
আত্মউপলব্ধি ও আত্মশুদ্ধি করার আহ্বান মিশেল হয়ে আছে এই কবিতায় । আপনার অন্তরের অন্তস্থল থেকে আমাদের সাথে
এত সুন্দর ভাবনা গুলোকে কবিতা কারে লিখেছেন সেজন্য আপনাকে আন্তরিক ধন্যবাদ। সঠিক পথে চলার চেয়ে ভুল পথে হাঁটার মানুষের সংখ্যাই বেশি। তারপরও চাইবো মহান আল্লাহতালা সবাইকে হেদায়েত করুন।
শান্তিপূর্ণ আহবানের একটি কবিতা পড়লাম। ভালো থাকুন।

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৪৩

খায়রুল আহসান বলেছেন: "সঠিক পথে চলার চেয়ে ভুল পথে হাঁটার মানুষের সংখ্যাই বেশি। তারপরও চাইবো মহান আল্লাহতালা সবাইকে হেদায়েত করুন" - খুব সুন্দর কথা বলেছেন। আমিও তাই চাই।
মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

২২| ০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০৮

সালু সরকার বলেছেন: জেকিল এন্ড হাইড আমার জানা নেই। সোহানি আপু আপনার মন্তব্য কিছুটা বুঝতে পারছি।

খায়রুল আহসান- স্যার আপনার ওয়ানডার ফুল থট আমি পড়তে চেয়েছিলাম । জাহিদ অনিক উনার রিভিও পড়ে জানলাম ওটা ইংলিশ এ। আমি ইংলিশ এ দুর্বল। পড়তে না পারার আক্ষেপ থেকে যাবে। আপনার সামুর কবিতা , অন্যান্য লেখাও পড়ি। মন্তব্য কেন যেন করা হয়ে উঠে না। ভালো থাকুন।

০৪ ঠা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:৪৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: 'ওয়ানডার ফুল থট' নয়, আমার বইটির নাম "ওয়ান্ডারিং থটস", যার বাংলা অনুবাদ অনেকটা এরকম হবেঃ লক্ষ্যহীনভাবে বিচরণরত বিক্ষিপ্ত ভাবনাগুলো
আপনার সামুর কবিতা , অন্যান্য লেখাও পড়ি। মন্তব্য কেন যেন করা হয়ে উঠে না। ভালো থাকুন
- এমন একজন সহৃদয় পাঠক আমার আছে জেনে অত্যন্ত প্রীত হ'লাম। মন্তব্য করতে না পারলেও কোন সমস্যা নেই। লেখক চায় পাঠক। আপনি আমার লেখা পাঠ করলেই আমি খুশী।
মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

২৩| ০৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:৩৪

সালু সরকার বলেছেন: দুঃখিত । অনেকদিন আগে বই টি সম্পর্কে জানি। ভুলে গিয়েছিলাম নাম টা। ওয়ান্ডারিং থটস - মনে থাকবে। এখন বই টা কোথায় পাওয়া যাবে? আসছে বই মেলায় পাওয়া যাবে?

০৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:০১

খায়রুল আহসান বলেছেন: না, আমার প্রকাশকের কাছে বইটির কোন কপি অবশিষ্ট নেই। আপনি যদি খুব বেশী আগ্রহী হন, তবে ঠিকানা জানালে আমি কুরিয়ারে করে পাঠিয়ে দিতে পারি।
আমার বইটি সম্পর্কে আপনার আগ্রহের কথা জেনে অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

২৪| ০৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৪৮

সালু সরকার বলেছেন: আপনার মতো একজন গুণী মানুষের কাছ থেকে বই পাওয়া পরম সৌভাগ্যের।
আমি ব্লগে আমার ঠিকানা দিতে চাচ্ছি না। আমি কি আপনার মেইল এড্রেস পেতে পারি।

১০ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৫৩

খায়রুল আহসান বলেছেন: আমার বইটির প্রতি আপনার এ আগ্রহ প্রকাশ আমাকে অনুপ্রাণিত করেছে। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা....

২৫| ০৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:১৩

সৈয়দ তাজুল ইসলাম বলেছেন: আজ অফিসে আমরা আলোচনা করছিলাম, যদি মসজিদে ইমাম সাহেবরা আমাদের ধর্মীয় ফরজ কাজ সম্পর্কে মানুষদের অবগত করতেন, তবে আজ আমাদের সমাজের অকর্মগুলো মুছে যেতে বেশি সময় নিতো না । প্রত্যেক ধর্মের মোলিক কাজ সম্পর্কে তার অনুসারীরা একেবারে অজ্ঞ হয়ে আছে । এসকল বিষয়ে আপনার কি মতামত খায়রুল ভাই ?



কবিতা অসাধারণ হয়েছে । অনেক অনেক ভালোলাগা জানবেন ভাই ।

০৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:২০

খায়রুল আহসান বলেছেন: জুম্মার নামাযের খুৎবায় কিন্তু বেশীরভাগ ইমাম সাহেবই ঈমান আকিদার কথা বলেন, মুসলমানদের করণীয় অকরণীয় সম্পর্কে কথা বলেন, বিভিন্ন মাস'আলাও দেন। কিন্তু যাদের এসব শোনার কথা, তারা তা মনযোগ দিয়ে শুনেন না, শুনলেও তা আমল করেন না।
মসজিদে ইমাম সাহেবদের অবশ্যই আমাদের ধর্মীয় ফরজ কাজ সম্পর্কে মুসল্লীদেরকে অবগত করানো উচিত।
কবিতার প্রশংসায় এবং প্লাসে প্রাণিত হ'লাম। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা---

২৬| ০৬ ই নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৭:৫৮

খায়রুল আহসান বলেছেন: অসত চিন্তা, অসাধু কর্মপন্থা এবং দুর্নীতি প্রবণতা আমাদের সৎসাহসকে ক্ববর দিয়ে যাচ্ছে প্রতিনিয়ত। নিজ বিবেকের ডাকে কেউ সাড়া না দেওয়ায় বিবেক আজ বড্ডো ক্লান্ত।

২৭| ০৭ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৩৮

না মানুষী জমিন বলেছেন: ভালো লাগলো।

১০ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:০৮

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতাটি আপনার ভাল লেগেছে জেনে প্রীত হ'লাম। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা....

২৮| ১১ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:০৫

দৃষ্টিসীমানা বলেছেন: বিবেকের ধ্বনি বাক হারিয়েছে , তাই আমাদের প্রিয় সামু ঘুমিয়ে ছিল ।

১২ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৫৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: বিবেক ধ্বনি দিয়ে যায়। কেউ শোনেনা, কেউ শোনে।
যারা সামুকে জোর করে ঘুম পাড়িয়ে রেখেছিল, তারাও বিবেকের সে ধ্বনি শুনতে পেয়েছে, তবে বেশ দেরীতে।

২৯| ১২ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১:১৭

অন্তরন্তর বলেছেন: খুব সুন্দর লিখেছেন। মানুষের ভিতর সবসময় ইবলিশ থাকে। ভাল কাজে সে পরাস্থ হয় মানে চুপ করে বসে থাকে আর খারাপ কাজ করলে সে উল্লসিত হয়।আমি মনে করি ইবলিশের মানুষের ভিতর থেকে বের হবার উপায় নেই। শুভ কামনা।

১২ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৩৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: মানুষের ভিতর সবসময় ইবলিশ থাকে। ভাল কাজে সে পরাস্থ হয় মানে চুপ করে বসে থাকে আর খারাপ কাজ করলে সে উল্লসিত হয় - ভাল বলেছেন এ কথাটা। মানুষ এবং ইবলিশের মাঝখানে দাঁড়িয়ে থাকে বিবেক নামক এক শক্ত এবং সুউচ্চ প্রাচীর।

৩০| ১৩ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৪:১০

কথাকথিকেথিকথন বলেছেন:



চমৎকার । ভালো চিন্তায় মগ্ন মন যদিও মাড়ায় ভুল পথ সে ফিরে আসে আবারও বিবেকের কাছে ।

১৩ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৪৩

খায়রুল আহসান বলেছেন: ভালো চিন্তায় মগ্ন মন যদিও মাড়ায় ভুল পথ সে ফিরে আসে আবারও বিবেকের কাছে - আপনার এ কথাটাও বড়ই চমৎকার! কবিতার কথার সাথে মিলে যায়।
মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত।
অনেকদিন পরে ব্লগে ফিরে এলেন। আশাকরি ভাল ছিলেন এতদিন।
শুভকামনা---

৩১| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৩৪

আহমেদ জী এস বলেছেন: খায়রুল আহসান,





মানুষের মন, নিত্য অপরাধপ্রবণ বলেই বিবেকের ধ্বনি অনেকেই শুনতে পায়না।
ঠিকই বলেছেন - জুম্মার নামাযের খুৎবায় কিন্তু বেশীরভাগ ইমাম সাহেবই ঈমান আকিদার কথা বলেন, মুসলমানদের করণীয় অকরণীয় সম্পর্কে কথা বলেন, বিভিন্ন মাস'আলাও দেন। কিন্তু যাদের এসব শোনার কথা, তারা তা মনযোগ দিয়ে শুনেন না, শুনলেও তা আমল করেন না।
শুনলে তো আর অধর্ম করা যায়না! অধর্ম না করলে জাগতিক সব সুখ যে হাতের নাগাল হয়না।


মুক্তা নীল বলেছেন, "আত্মউপলব্ধি ও আত্মশুদ্ধি করার আহ্বান মিশেল হয়ে আছে এই কবিতায় ।" আমিও বলি তাই।
৪ নম্বর প্রতিমন্তব্যে জোশ বলেছেন।
১০, ২০, ৩০ নম্বর মন্তব্য ভালো লাগলো। ( নম্বর পরম্পরা লক্ষনীয় !)
১৪ নম্বর মন্তব্যটি ঘটনাদৃষ্টে বাস্তবের ছবিই মনে হয়।

১৬ ই নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:০৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: শুনলে তো আর অধর্ম করা যায়না! অধর্ম না করলে জাগতিক সব সুখ যে হাতের নাগাল হয়না - একদম ঠিক কথাটি বলেছেন। জাগতিক সুখটা নগদ প্রাপ্তি। সেদিকে ধাবিত হওয়ার প্রবণতাটাই মানুষের মধ্যে বেশী দেখা যায়, যদিও "বিশ্বাসে স্বর্গ মেলে..."!
আপনার এবারের মন্তব্য করার ধরণটা একেবারে আমারটার সাথে মিলে গেছে মনে হলো!!! :)
মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।
ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

৩২| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ২:২১

ডঃ এম এ আলী বলেছেন:
কবিতা পাঠে মুগ্ধ । এর সঠিক গুণগান করার ভাষাজ্ঞান আমার নেই । তবে কবিতাটি পাঠে কেবলই অনুভবে আসে সৃস্টিকর্তা মহান আল্লাহ মানুষকে অসীম মর্যাদা দিয়ে সৃষ্টি করেছেন । তিনি চান যেন আমরা স্বেচ্ছায় তাঁর আদেশ মেনে চলি এবং ইহজগতে ও পরজগতে অনন্ত সুখ লাভ করি । বিধাতার কৃপায় এ জগতে মানুষ অনেক সম্ভাবনা নিয়ে জন্মগ্রহন করে । বিধাতার আর্শিবাদ, মানুষের সহযোগীতা ও নীজ সাধনাবলে মানুষ এসব সম্ভাবনাকে বিকসিত করে মনুষ্যত্বের পূর্ণতা লাভ করতে পারে । আল্লাহ মানুষকে বুদ্ধি দিয়েছেন , বিবেক দিয়েছেন এবং ভালমন্দ বেছে নেয়ার ক্ষমতা দিয়েছেন । সঠিক গঠন ও পরিচালনা পেলে মানুষ জীবনে সঠিক সিদ্ধান্ত গ্রহণ করতে পারে । আর যদি বিবেকের কথা না শুনে তাহলে মানুষ নীজের কাছে এবং অপরের কাছে সমস্যা হয়ে দাঁড়ায় । তখন সে নীজেও কষ্ট পায় এবং অপরের জন্যও কষ্টের কারণ হয়ে দাঁড়ায় । ইবলিসতো এটাই চায় , এটাই তার ধ্যান জ্ঞান (কুজ্ঞান) কর্ম ও সাধনা ।
তবে
মানুষকে জ্ঞানের দিক্ষা দেয় যে পবিত্র আত্মিক প্রেরণা, সে তো ছলনার কাছ হতে থাকবে দুরেই;
এড়িয়েই চলবে যত বুদ্ধিহীন চিন্তাভাবনা , অন্যায়-অধর্ম দেখা দিলে সে তো অন্তরে সঙ্কুচিত হবে
প্রজ্ঞা এমনই এক আত্মিক প্রেরণা সে যেন মানুষের কাছে বন্ধুর মতোই, ইবলিস কেন তা সইবে।

বিবেক হচ্ছে আমাদের হৃদয়-গভীরে বিধাতার কন্ঠস্বর । সেই স্বর প্রতিনিয়ত আমাদের নির্দেশ দেয় আমরা যেন ভাল-মন্দের পার্থক্য বুজে ভালটা বেছে নেই এবং মন্দটাকে বর্জন করি । আমরা যখন আল্লাপ্রদত্ত স্বাধীন ইচ্ছা প্রয়োগ করে ভালোটাকে বেছে নেই তখন বিবেক আমাদের সমর্থন জানায় , আর যখন বিবেকের কথা না শুনে ইবলিসের প্ররোচনায় মন্দটাকে বেছে নেই তখন বিবেক আমাদের দংশন করে, কেও এই দংশন অনুভব করে সাথে সাথেই, কেও করে বহু বিলম্বে । তবে বিলম্বে হলেও একদিন সকল কাজের একটি চূড়ান্ত মল্যায়ন হয় । স্বচ্ছ বিবেকের নির্দেশ অনুযায়ী চললে পাওয়া যায় স্বস্থি ও শান্তি এবং পরিনামে অনন্ত শান্তিময় সুখের জীবন, আর বিবেকের নির্দেশ অমান্য করে মানুষ লক্ষ্যচ্যুত ও কক্ষচ্যুত হয়ে ইবলিসের প্ররোচনায় অন্যায় ও কুকর্মে লিপ্ত হলে পরিনামে পায় অশান্তি ও চরম শাস্তি। ভাল বা মন্দকে সুস্পষ্টভাবে বোজার জন্য বিবেকের সঠিক গঠনও জরুরী। আল্লার বাণী, কোরানের শিক্ষা ও আদেশ নির্দেশ, বিধাতা প্রেরিত মহাপুরুষের উপদেশ ও পরামর্শ ও পথনির্আদেশনা আমাদের বিবেকের গঠন পেতে সাহায্য করে । সুগঠিত বিবেক আমাদের জীবনে অতি মুল্যবান শক্তি বা আলোকবর্তিকার ন্যয় । প্রকৃতপক্ষে বিবেকের মধ্য দিয়ে মহাপ্রভুর আত্মিক প্রেরণাই আমাদের মন-হৃদয় আলোকিত করে । তখন আমরা জীবনে সঠিক পথ বেছে নিতে পারি এবং আমাদের নীজের ও অপরের জীবনকে ঘীরে নেয়া সিদ্ধান্তগুলি হয় কল্যানকর, এর অন্যথা তথা বিবেকের কথা না শুনে সিদ্ধান্ত ও কর্ম করলে হয় মহা অকল্যানকর। এ মহুর্তে সুস্থ কল্যানকর বিবেক খুবই প্রয়োজন ।
মানুষকে সুস্থ বিবেকময় চিন্তা ও কল্যানের দিকে ধাবিত করার লক্ষ্যে রচিত মুল্যবান কবিতাটির জন্য ধন্যবাদ ।

শুভেচ্ছা রইল


১৬ ই নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:০২

খায়রুল আহসান বলেছেন: অশেষ ধন্যবাদ, ডঃ এম এ আলী। আপনার প্রাজ্ঞ মন্তব্য আমার সাদামাটা পোস্টকেও দ্যূতিময় করে তোলে।
বিবেক হচ্ছে আমাদের হৃদয়-গভীরে বিধাতার কন্ঠস্বর - আপনার এ চমৎকার ঘোষণাটি পড়ার পর থেকে কেবলই আমার কানে-মনে অনুরণিত হচ্ছে। কতটা গভীর এ কথাটার মানে, কতটা সত্য আমাদের সবার জীবনে!
কবিতা পড়ে আপনার মূল্যবান ভাবনাগুলো মন্তব্য আকারে আমার পোস্টে শেয়ার করে এবং কবিতায় প্লাস দিয়ে আমাকে অশেষ অনুপ্রাণিত করে গেলেন। অনেক, অনেক ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা...

৩৩| ১৬ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:১৫

শাহাদাৎ হোসাইন (সত্যের ছায়া) বলেছেন: পাপকর্মের পর মানুষের প্রায়শ্চিত্ত জেগে উঠা জরুরী।

যদিও কবিতায় শয়তানের প্রয়োচনার কথা বলা হয়েছে কিন্তু আমাদের সম্পদের প্রতি জ্ঞাত লোভ খারাপ কাজের জন্য কমদায়ী নয়।

১৬ ই নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:০৯

খায়রুল আহসান বলেছেন: পাপকর্মের পর মানুষের প্রায়শ্চিত্ত জেগে উঠা জরুরী - এ কথার সাথে দ্বিমত পোষণের কোনই অবকাশ নেই।
লোভ মানুষের সহজাত প্রবৃত্তি। সেটাকে দমনের জন্য মানসিক অনুশীলনের প্রয়োজন।
মন্তব্যের জন্য ধন্যবাদ।

৩৪| ১৮ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০৫

নজসু বলেছেন:


অনেকদিন পর আপনার মনোমুগ্ধকর একটি কবিতা পাঠ করলাম।
লা ইক।

১৯ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৫৫

খায়রুল আহসান বলেছেন: আমার ব্লগে একটু থেমে কবিতাটি পড়ে যাবার জন্য ধন্যবাদ। কবিতার প্রশংসায় এবং প্লাসে প্রাণিত হ'লাম।
আন্তরিক ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা!!!!

৩৫| ১৯ শে নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:২৫

রূপম রিজওয়ান বলেছেন: সত্যিই ভাবনার খোরাক জোগালেন।
মনোজগতে বিচরণরত সহজ-সরল,কিন্তু গভীর তাৎপর্যপূর্ণ চিন্তাগুলো আপনার সুনিপুণ দক্ষতায় ভাষা পেল।
মুগ্ধ! ভালো থাকবেন।
+

১৯ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:২৩

খায়রুল আহসান বলেছেন: আমার কোন লেখায় আপনি এই বুঝি প্রথম এলেন- ব্লগে সুস্বাগতম!
চমৎকার মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রাণিত হ'লাম। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা!!!

৩৬| ১৯ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:১১

রূপম রিজওয়ান বলেছেন: জ্বি,আমি ব্লগে নতুন।তবে সাধারণ পাঠক হিসেবে আপনাদের লেখনীর সাথে পরিচিতি বহুদিনের।আর আমি আপনাদের চেয়ে বয়সে অনেক ছোট;তাই আপনি করে না ডাকলেই কৃতার্থ হব।
আমার ব্লগে নিমন্ত্রণ রইলো...

২০ শে নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৯:২০

খায়রুল আহসান বলেছেন: এটা জেনে প্রীত হ'লাম যে আপনি এ ব্লগের পুরনো পাঠক, নতুন লেখক। অবশ্যই আপনার ব্লগেও ঘুরে আসবো।

৩৭| ২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ ভোর ৪:৩৬

সোহানী বলেছেন: আপনার মন্তব্যেও প্রতিউত্তর রেখে এসেছি আমার লিখায়, পড়লে খুশি হবো।

২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:৫৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ। পড়েছি এবং প্রীত হয়েছি।

৩৮| ২১ শে নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ২:৫৪

অন্তরন্তর বলেছেন: শ্রদ্ধেয় আবার আসলাম আপনার চমৎকার প্রতিমন্তব্য দেখে। আমি ইবলিশের আমাদের ভিতরে স্থায়ী বসবাসের কথা বলেছি কিন্তু বিবেকের কথা কিছু লিখিনি কারন ১৭ কোটি বাংলাদেশীর মাঝে হাতে গোনা কয়েকটা বিবেক মনে হয় জাগ্রত আছে যা উল্লেখ করে হৃদয়ে রক্তক্ষরণ করে লাভ নেই।আমার মতে বিবেক আমাদের দেশ থেকে পলায়ন করেছে সেই অনেক দিন হয়। ভাল থাকুন নিরন্তর।

২২ শে নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১১:৪৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: আমার মতে বিবেক আমাদের দেশ থেকে পলায়ন করেছে সেই অনেক দিন হয় - এটা ভীষণ উদ্বেগের কথা বটে।
পুনঃমন্তব্যের জন্য আবারো ধন্যবাদ। প্রবাসে ভাল থাকুন, শুভকামনা...

৩৯| ২৪ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:২৯

সূচরিতা সেন বলেছেন: অনেক ভালো লাগলো আপনার ধর্মীয় অর্থমূলক কবিতা।

২৪ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৩৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতাটি পড়ার জন্য অনেক ধন্যবাদ। মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত হ'লাম।

৪০| ২৬ শে নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৮:৪২

সৈয়দ তাজুল ইসলাম বলেছেন: খায়রুল আহসান ভাই,
এই অসত চিন্তা, অসাধু কর্মপন্থা এবং দুর্নীতি প্রবণতার বিরুদ্ধে আমাদেরকে যারা পথ দেখাবেন তারাই তো আজ অবচেতন।

যাক, এসব বিষয় নিয়ে কথা বলতে লজ্জা লাগে!

২৬ শে নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৯:৫৪

খায়রুল আহসান বলেছেন: যাক, এসব বিষয় নিয়ে কথা বলতে লজ্জা লাগে! - শুধু লজ্জা নয়, অকপটে স্বীকার করছি, ভয়ও লাগে! :)

৪১| ০৫ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:২৩

মনিরা সুলতানা বলেছেন: আজকাল আমরা এতটাই আত্মমগ্ন থাকি যে আত্ম শুদ্ধি' র সময় নেই ।
চমৎকার কবিতায় ভালোলাগা।

০৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:১৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: আজকাল আমরা এতটাই আত্মমগ্ন থাকি যে আত্ম শুদ্ধির সময় নেই - চমৎকার একটি কথা বলেছেন, যা অনেকাংশে সত্য।
কবিতা পড়ার জন্য ধন্যবাদ। মন্তব্যে এবং প্লাসে অনুপ্রাণিত।

৪২| ১৩ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সকাল ৯:৫২

আর্কিওপটেরিক্স বলেছেন: আত্মতুষ্টির খোঁজে আমরা আত্মশুদ্ধির প্রয়োজন ভুলে যাচ্ছি। বর্তমান সময়ে বিবেক, মূল্যবোধ কেমন যেন ঠুনকো হয়ে যাচ্ছে। পারিবারিক শিক্ষার অভাবও লক্ষনীয় !

কবিতার আহ্বান বাস্তবে হোক... এ আশায় রইলাম।


চমৎকার কবিতায় ভাপা পিঠার ধোঁয়া ছড়ানো ভালোলাগা ......

১৩ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:০৬

খায়রুল আহসান বলেছেন: চমৎকার কবিতায় ভাপা পিঠার ধোঁয়া ছড়ানো ভালোলাগা ...... - দিনোপযোগী মন্তব্য।
কবিতার আহ্বান বাস্তবে হোক... এ আশায় রইলাম - আশা তব পূর্ণ হোক!
বিবেক সময়মত ডাক দিয়ে যায়। সে ডাক শুনতে হবে, মানতে হবে!
মন্তব্যে এবং প্লাসে প্রীত ও অনুপ্রাণিত। ধন্যবাদ ও শুভেচ্ছা!!!

৪৩| ১৭ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:৫৭

জাহিদ অনিক বলেছেন: মানুষের মন, নিত্য অপরাধপ্রবণ একদম যথাযথ একটা চিরন্তন কথা।

কবিতায় ভালোলাগা প্রিয় কবি।

১৮ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:৫২

খায়রুল আহসান বলেছেন: কবিতাটি পড়ে যাবার জন্য অনেক ধন্যবাদ। মন্তব্যে এবং প্লাসে অনুপ্রাণিত হ'লাম।

৪৪| ০৪ ঠা জানুয়ারি, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:২৮

Farhana Sharmin বলেছেন: খুব সুন্দর।পড়ে ভাল লাগল।

০৪ ঠা জানুয়ারি, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৫৭

খায়রুল আহসান বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ জানাচ্ছি আপনাকে, অনেকদিন পরে এসে আমার একটি আগের কবিতা পড়ে যাবার জন্যে। কবিতার প্রশংসায় এবং প্লাসে অনুপ্ররাণিত হ'লাম।
ভাল থাকুন, শুভকামনা---

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.