নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

:):):)(:(:(:হাসু মামা

:):):)(:(:(:হাসু মামা › বিস্তারিত পোস্টঃ

আসুন সান্টাক্লজের সম্পর্কে কিছু জানি

০৩ রা জানুয়ারি, ২০২১ রাত ৯:৪০

প্রচলিত বিশ্বাস অনুযায়ী, তিনি খ্রিষ্টমাস ইভ বা ২৪শে ডিসেম্বর তারিখের সন্ধ্যায় এবং মধ্যরাতে অথবা ফিস্ট ডে বা ৬ই ডিসেম্বর তারিখে ভাল ছেলেমেয়েদের বাড়ি বাড়ি ঘুরে তাদের উপহার দিয়ে যান। এই কিংবদন্তির উৎস ঐতিহাসিক চরিত্র উপহার-প্রদানকারী সেন্ট নিকোলাসের জীবন সংক্রান্ত সন্তজৈবনিক উপাদানসমূহ। গ্রিক এবং বাইজানটাইন লোককথাতেও বাসিল অফ সিসেরিয়া সংক্রান্ত একই প্রকারের একটি কিংবদন্তির উপাখ্যান বর্ণিত হয়েছে। বাসিলের ফিস্ট ডে বা ভোজদিবস পয়লা জানুয়ারি গ্রিসে উপহার আদানপ্রদানের দিন।সেন্ট নিকোলাসের প্রকৃত চিত্রটি ছিল এক বিশপের আলখাল্লা পরিচিত সন্তের চিত্র। কিন্তু আজকের সান্টাক্লজ সাধারণত হন কোনো স্থূলকায়, হাস্যমুখর এবং সাদা দাড়ি বিশিষ্ট একজন ব্যক্তি তার পরনে থাকে সাদা কলার এবং কাফযুক্ত লাল কোট, সাদা কাফযুক্ত লাল ট্রাউজার্স, কালো চামড়ার বেল্ট ও বুটজুতো। ঊনবিংশ শতাব্দীতে বিশিষ্ট ক্যারিকেচারিস্ট এবং রাজনৈতিক কার্টুনিস্ট টমাস নাস্টের প্রভাবে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডায় সান্টাক্লজের এই রূপটি বেশি জনপ্রিয়তা লাভ করে।এই রূপকল্পের প্রচার এবং তার জনপ্রিয়তার প্রসারে সহায়তা করে একাধিক গান, রেডিও, টেলিভিশন ও চলচ্চিত্র। যুক্তরাজ্য এবং ইউরোপে সান্টাক্লজের রূপটি আমেরিকান সান্টার মতো হলেও তিনি ফাদার খ্রিষ্টমাস নামেই সমধিক পরিচিত।

সান্টাক্লজ সংক্রান্ত একটি কিংবদন্তি অনুসারে তিনি সুদূর উত্তরে এক চিরতুষারাবৃত দেশে বাস করেন। আবার সান্টাক্লজ সংক্রান্ত আমেরিকান উপাখ্যান অনুসারে তার নিবাস উত্তর মেরুতে। অন্যদিকে ফাদার খ্রিষ্টমাসের নিবাস মনে করা হয় ফিনল্যান্ডের, ল্যাপল্যান্ড প্রদেশের কোরভাটুনটুরি পার্বত্য অঞ্চলে। সান্টাক্লজ তার স্ত্রী মিসেস ক্লজ, অসংখ্য জাদুক্ষমতাসম্পন্ন এলফ, এবং আট নয়টি উড়ন্ত বলগাহরিণের সঙ্গে বসবাস করেন। অপর একটি উপাখ্যান অনুসারে সান্টাক্লজ সারা বিশ্বের শিশুদের একটি তালিকা প্রস্তুত করে তাদের আচরণ অনুযায়ী দুই ভাগে ভাগ করেন। তারপর খ্রিষ্টমাস ইভের রাতে তিনি লক্ষ্মী ছেলেমেয়েদের খেলনা, লজঞ্চুস এবং অন্যান্য উপহার সামগ্রী দেন এবং কখনো কখনো দুষ্টু ছেলেমেয়েদের কয়লা দিয়ে যান। এই কাজ তিনি সম্পন্ন করেন তার কারখানায় কর্মরত এলফ ও তার স্লেজগাড়ির বাহক বলগাহরিণগুলির মাধ্যমে।

শিশুদের সান্টাক্লজ সংক্রান্ত বিশ্বাসগুলি শিক্ষা দেয়ার বিপক্ষেও কেউ কেউ মত প্রকাশ করেন। কোনো কোনো খ্রিষ্টান মনে করেন যে সান্টা সংস্কৃতি ধর্মীয় উৎস এবং বড়দিনের উদ্দেশ্য থেকে জনসাধারণকে বিচ্যুত করছে। অন্যান্য সমালোচকদের মতে সান্টাক্লজ সংক্রান্ত উপকথাটি একটি সুবিন্যস্ত মিথ্যা এবং যেকোনো পিতামাতার পক্ষেই তাদের ছেলেমেয়েদের এই মিথ্যা অস্তিত্বে বিশ্বাস স্থাপনে শিক্ষাদান অনৈতিক। আবার কেউ কেউ সান্টাক্লজকে বড়দিনের ছুটির বাণিজ্যকরণের প্রতীক হিসেবে তার বিরোধিতা করে থাকেন।

মন্তব্য ০ টি রেটিং +০/-০

মন্তব্য (০) মন্তব্য লিখুন

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.