নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

বিষন্নতায় ভরা নিঃশ্বাস

বিষন্ন পথিক

ইলেকট্রনিক্স অ্যাপ্লিকেশন ডিজাইনার। শুধু জীবন সার্কিটে সুখের স্পেসিফিকেশনটা জানলেও ডিজাইনটা করতে পারলাম না....

বিষন্ন পথিক › বিস্তারিত পোস্টঃ

আমার ম্যাকের বার্গার ভক্ষন ;)

১৪ ই জুন, ২০১৩ সকাল ১০:৩৫

অফিসে লান্চ আনি নাই। চ্রম খিদা লাগ্ছে, আশে পাশে ম্যাক ছাড়া আর কিছু নাই। খালি প্যাটে জুম্মার নামাজ পড়তি হবে এই চিন্তায় মুখ পাংশু করে বসে আছি।



বন্ধু কহিলো ' টেনশন কিয়ের, আজরাইল দেখছিস নাকি'?

'দ্যাকলে তো ভালু হৈত, দুনিয়ার দিগদারি আর ভাল্লাগেনা।অন্যদিন খাইতে ইচ্ছা করেনা, আইজই লান্চ আনি নাই, আইজই নজরুল মৃত্যুক্ষুধা লেখনের প্রেরনা কই পাইসে সেডা আবিস্কার কর্সি, ম্যাক তো হালাল না, কি খামু, ম্যাক খায়া নামাজে যাই কেম্নে'



বন্ধুর জোরাজুরি তে ম্যাকে গিয়া বিলবোর্ডে ভেজি বার্গার খুজি, পাশের দেখি বন্ধু আমাদের দুই জনের চিকেন বার্গার ট্রে নিয়া বইসে।



'শোন' বন্ধু কৈলো, ' পরকাল হৈলো একটা বনের মত, এই খানে একটা ভালো কাজ কর্লি মানে ঐ বনে একটা গাছ লাগাইলি যাতে ঐ গাছের ফল খেয়ে থাক্তে পারিস। আর একটা খারাপ কাজ কর্লি মানে বনে একটা বাঘ জন্মাইলো। যেই বাঘ তরে পরে খাবে। এমন না যে, ভালো কাজ কর্লে বাঘ অটোমেটিক মর্বো, শুধু যখন তওবা কর্বি তখন বাঘ মর্বো। '



'তাই গাছও লাগা, বাঘও জন্মাক, গাছ বেশী হৈলে আর টেনশনের মওকা নাই, খালি ফুর্তি। দুনিয়া বড় আজিব জায়গা রে...' উদাস ভাবে চাইয়া রইল ছাদের দিকে, এক্কেরে এরিষ্টেটলের নাত জামাই।



এক্ষনে আমার অর্ধেক বার্গার শ্যাষ, বিশাল গ্রেস দিলেও বেহেশতের পাশ নাই, এক পা এম্নিই নরকে। বত্রিশের ফেলও যা যিরোর ফেলও তা। দিলাম কোকের ফুড়ুত টান, টাইম নষ্ট কৈরা লাভ নাই।

মন্তব্য ৪ টি রেটিং +২/-০

মন্তব্য (৪) মন্তব্য লিখুন

১| ১৪ ই জুন, ২০১৩ দুপুর ১২:২১

নোবিতা রিফু বলেছেন: দাম কত ভাইজান? :|

১৪ ই জুন, ২০১৩ দুপুর ১২:৩৩

বিষন্ন পথিক বলেছেন: কিসের দাম?

২| ১৪ ই জুন, ২০১৩ দুপুর ১২:৪৮

ইরফান আহমেদ বর্ষণ বলেছেন: বিল কতো আইলো?

১৪ ই জুন, ২০১৩ দুপুর ১২:৫৩

বিষন্ন পথিক বলেছেন: হুর্ভাই, এক্কান বার্গারের দাম ড্রিংক চিপস শ ছয় ডলার

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.