নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

মনটা যদি তুষারের মতো...

আখেনাটেন

আমি আমাকে চিনব বলে বিনিদ্র রজনী কাটিয়েছি একা একা, পাই নি একটুও কূল-কিনারা কিংবা তার কেশমাত্র দেখা। এভাবেই না চিনতে চিনতেই কি মহাকালের পথে আঁচড় কাটবে শেষ রেখা?

আখেনাটেন › বিস্তারিত পোস্টঃ

কল্প-গল্প: ৩০৪১ সাল?

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৪২



নরকের দরজায় বিরাট হট্টগোল। আমি পেছন থেকে কিছু বুঝতে পারছিলাম না। সামনে যে এগিয়ে যাব তারও উপাই নেই। বিশাল বিশাল শরীর নিয়ে ভৃগুদা, পদাতিক দা, ভুয়া মফিজ সাহেবরা দাঁড়িয়ে আছে। আরো অনেক পরিচিত মুখের ব্লগারকে দেখলাম আমাশয় রোগীর মতো মুখ করে অপেক্ষা করছে।

আমি পাশের একজনকে গুঁতো দিয়ে জিজ্ঞেস করলাম, ‘ভাই, গেট পাস দিতে এতো দেরি করতেছে ক্যান’। নিশ্চিত বিপদের সামনে দাঁড়িয়ে অপেক্ষা করতে কার ভালো লাগে। স্মার্টফোনটা থাকলেও সময়টা কাটত। কিছুদিন আগে টারজান০০০০৭ কিবা করে একটি ম্যানেজ করে দিয়েছিল। কিন্তু দুর্ভাগ্য- নরকের প্রহরী সেটা দেখতে পেয়ে বাজেয়াপ্ত করেছে। এবং শাস্তি হিসেবে ৩ বেত্রাঘাত। কিংবা বলা চলে পিলারাঘাত। মানে হচ্ছে এই বেত্রাঘাত জীবিত থাকাকালীন রাম মজিদ স্যারের বেতের আঘাতের মতো নয়। এখানে বেত্রাঘাত মানে পদ্মা ব্রিজের লোহার পাইলের মতো ভীষণ একটি বস্তু দিয়ে দরমুশ কষানো। এক আঘাতে পৃথিবীর ভেতরের কোর পর্যন্ত বিনা টিকিটে ঘুরে আসা যায়।

চাঁদগাজীকে দেখছি নরকের বিভিন্ন অসঙ্গতি নিয়ে নাতিদীর্ঘ জ্ঞানগর্ভ বক্তৃতা দিচ্ছে। কয়েকদিন আগে উনি নাকি কোনো এক দেবতাকে ‘পিগমি ও ডোডোপাখি’ বলায় ‘কড়াই পড়া’ দেওয়া হয়েছিল। মানে হচ্ছে আলুর চিপসের মতো করে ৫০০০ ডিগ্রি সেন্টিগ্রেডে ৪১ সেকেন্ড ভাজা। কড়াই পড়ার পর এখন কিছুটা দেবতাদের বকা দেওয়াতে সংযত হয়েছেন শোনা যাচ্ছে। মনোযোগী শ্রোতা হিসেবে রাজীব নুরসহ অনেককে দেখলাম এইসব বিষয় শুনতে। আমিও ইতিউতি তাকিয়ে যোগ দিলাম।

এর আগে ইন্দ্ররাজ আমাদের প্রাথমিক বিচার সমাপ্ত করেছেন। তারই কিছু চুম্বক অংশ এখানে তুলে ধরা হলঃ


@আখেনাটেনের বিচার

দেবতাঃ তোর নাম কিরে?
আখেনাটেনঃ মানবতার, আমি আখেনাটে...।
দেবতাঃ থাক, থাক। বুঝতে পারছি। তুই ঐ সামু না কি যেন একটা ‘জাতীয় সবার্থ পরিপন্থী’ ভ্যাজালা জিনিস ছিল ওটাতে ওল্টাপাল্টা লিখতিস।
আখেনাটেনঃ জী হুজুর।
দেবতাঃ তোর তো পাপের ফর্দি এতই বিশাল যে আমি মেশিন লার্নিং টুলস ব্যবহার করেও হিসাব মিলাতে পারলাম না। তা আমার মিশরের দোস্তের নামের সাথে নাম রেখে ভং ধরছিস ক্যান।
আখেনাটেনঃ না মানে। আমিও উনার ভক্ত ছিলাম হুজুর।
দেবতাঃ তোর ভক্তগিরি ছুটানোর ব্যবস্থা করতেছি দাঁড়া।

আখেনাটেনঃ হুজুর, নরকে প্রবেশের আগে আমার একটি আর্জি ছিল।
দেবতাঃ কি আর্জি বল শুনি।
আখেনাটেনঃ হুজুর, আমি খোঁজ নিয়েছি। আমার নেফারতিতি এখন স্বর্গবাসী হুর হয়ে অন্যের মনোরঞ্জন করছে। ক্যামনে…? একবার যদি আমার নেফারতিতির সাথে মোলাকাত করতে দিতেন। খালি একটাই প্রশ্ন করতাম...। এরপর আমার নরকে যেতেও আপত্তি নেই, হুজুর।
দেবতাঃ ওরে কে কোথায় আছিস! এই পাপিষ্ট কি কয়! এ নাকি নরকবাসী হয়ে হুরের সাথে দেখা করবে। তাৎক্ষণিক ৩ বেত্রাঘাতের ব্যবস্থা কর এই নাদানের।


@টারজান০০০৭’র বিচার

দেবতাঃ নাম বল?
টারজান০০০৭ঃ আজ্ঞে হুজুর, টারজান…
দেবতাঃ কি বললি, টারজান। তা তুই বনে-বাদাড়ে না থেকে নরকে কি করছিস?
টারজান০০০৭ঃ হুজুর, পুরোনাম টারজান০০০৭। সামুতে লিখি।
দেবতাঃ হুম, এবার বুঝছি; তা তোর তো নরকে আসার কথা নয়।
টারজান০০০৭ঃ মানবতার, কিছু পাঁঠা প্রমাণ সহ আপনার দরবারে আমার নামে নালিশ করেছে । তাই নরকের প্রহরীরা আমাকে এখানে আটকে রেখেছে।
দেবতাঃ তোর বিপক্ষে আবার কী প্রমাণ? তুই তো আমার গুণগানই গাইতিস।

টারজান০০০৭ঃ না মানে, হুজুর; ব্লগের অনেক পাঠাঁর আমি বিচি ফেলেছিলাম। কোন এক পাঠাঁ নাকি সেই বিচিগুলো কুড়িয়ে একসাথে করে এনে আপনার দরবারে প্রমাণসহ তাদের কষ্টের কথা অন্য দেবতাদের জানিয়েছি। সেই জন্য..।

দেবতাঃ ইন্টারেস্টিং তো। ওগুলো আবার কুড়িয়ে জড় করে প্রমাণও হাজির করেছে। পাঠাঁদের এলেম আছে বলতে হয়। যাহোক, তুই চিন্তা করিস না, ব্যাপারটার আমি ফারদার ইন্টারোগেশন করে তোকে জানাচ্ছি। এখন যা। নেক্সট উইকে তোর ব্যাপারটা সুপ্রীম আদালতে তোলা হবে। পাঠাঁরা দেখছি এখানেও গ্যাঞ্জাম লাগায়ে দিছে।


@রাজীব নুরের বিচার

দেবতাঃ এই তুই! তোর নাম কিরে!
রাজীব নুরঃ হুজুর, আমার নাম রাজীব নুর।
দেবতাঃ হুম; আর বলতে হবে না। তোকে তো আমি হাড়ে হাড়ে চিনি। তুই তো সকালে আমাকে গালি দিস আবার বিকেলে সালাম দিস। তোর হাড্ডি চামড়া ছিলে যদি লবণ লাগাতে না পারছি তাইলে কিসের আমি ইন্দ্ররাজ।
রাজীব নুরঃ মানবতার, আপনি সাত আসমানের মালিক, এগুলো সবই ঘৃন্য ষড়যন্ত্র! আমি ভালা মানুষ সত্তেও কিছু হালার পো আমার পেছন দিকে মোটা...।
দেবতাঃ চুপ, বেয়াদপ। আমার সাথেও তর্ক। তুই কি জিনিস, সেটা আমি ভালো করেই জানি। শোন, এটাতো জানিস তোর বউ-বেটিরা স্বর্গবাসী। ওদের ওছিলায় তোকে মাফ করা যায় কিনা ভাবছিলাম। কিন্তু তোর ভ্যাজাল কথাবার্তাতে মত পাল্টাতে বাধ্য হলাম। এই কে আছিস, এই পাপিষ্টকে নিয়ে যা। একে ‘নরকে কালা কুমকুম’র নিচের চেম্বারে রাখবি।


@চাঁদ্গাজীর বিচার

দেবতাঃ তোর পরিচয় দিতে হবে না। তোর লেখা সামুতে আমিও পড়েছি। পড়েছি আর কেঁদেছি; কেঁদেছি আর রেগেছি; রেগেছি আর নেচেছি। আগে বল আমার প্রতি তোর এত রাগ ক্যান!

চাঁদ্গাজীঃ আগে ভদ্রভাবে কথা বলুন। তুই-তোকারি বাদ দিন। আপনার বালছাল কথা শুনার মতো আমার সময় নেই। আপনাদের মতো ডোডোপাখীদের চেনা আছে।

দেবতাঃ (বিস্মিত ও টাস্কিত; দেবালয়ে এসে কেউ তার মুখের উপর এভাবে বলতে পারে কিছুতেই ভাবতে পারছে না। নিজের শক্তিমত্তা নিয়ে নিজেরই সন্দেহ শুরু হচ্ছে এই লোকের কথায়; বিস্ময় সামলে)...ক্ষেপে গিয়ে তোতলাতে তোতলাতে, ‘সাত আসমানের কসম, তোকে যদি আমি অনন্তকাল ধরে কড়াই পড়া না দিয়েছি তো আমিও…...।’

চাঁদ্গাজীঃ (মনে মনে-- এখনও তুই-তোকারি করছিস; দাঁড়া মজা দেখাচ্ছি) নরকের ভয় দেখাচ্ছিস বড়। ব্লগেও এরকম আপনার মতো পিগমি, লিলিপুটিয়ানদের দৌড়ের উপরে রেখেছিলাম। জীবনে তো আর কম প্যাঁওপ্যাঁও শুনলাম না। এইসব বালছাল শোনার টাইম নাই। এবার শোনান আপনার ফালতু বিচার।

দেবতাঃ (কিছুক্ষন থম মেরে থেকে-- দেখে মনে হচ্ছে ঐ সব শুনে নিজের উপরেই আস্থাহীনতায় ভুগছেন ইন্দ্ররাজ, শরীরটাও চক্কর দিয়ে উঠছে...) এই কে আছিস? এই পাপাত্মাকে রোজার সময় যেমন বেগুনীর জন্য পাতলা করে ফেড়ে বেসনে চুবিয়ে কড়া তেল চুপচুপে ভাজা করা হয়, একেও এই ট্রিটমেন্ট দিবি। সাতদিন পর আবার আনবি আমার সামনে। তারপর দেখি কোনো উন্নতি হয়েছি কিনা !

আচ্ছা, থাক। এই জিনিস থেকে আমাকেও দূরে রাখবি। না হলে আমিও ভুলভাল করে ফেলব বিচারে। আজকের মতো বিচার সমাপ্তি। মাথা কাজ করছে না।

চাঁদ্গাজীঃ (নরকের প্রহরীরা নিয়ে যাওয়ার সময় পিছন ফিরে...) প্রশ্নফাঁস করে দেবতা হয়েছিলেন নাকি। ডোডো একটা।

(পরের দিন দেবতা ইন্দ্ররাজের মেজর ওপেন হার্ট সার্জারী জরূরী ভিত্তিতে করতে হয়েছে আকস্মিক…)


বিদ্র: চারিডিকে এত্ত কাকটাল ঘতনা ঘতে ছ্যাঁচা-মিঁচা বুজা না মুমকিন হ্যায়। বলি কি, 'ভুলে যান এসব কল্প-গু'।

ছবি: অন্তর্জাল
*************************************************************************************
আখেনাটেন/আগস্ট-২০১৯

মন্তব্য ৬৫ টি রেটিং +১৫/-০

মন্তব্য (৬৫) মন্তব্য লিখুন

১| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৫৮

নীল আকাশ বলেছেন: প্রথম মন্তব্য করলাম মনে হচ্ছে।
ইন্দ্ররাজের সিদ্ধান্ত পুরোপুরি ঠিক আছে। চাদগাজীকে এর বালছাল আচরনের জন্য নিয়মিত ৩বেলা করে কড়াই পড়া দেয়া আসলেও দরকার।
লেখা তো ভালই লাগছিল, মাত্র ৩জনে থেমে গেলেন কিল্লাই?

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:০৮

আখেনাটেন বলেছেন: :D

ইন্দ্ররাজ কারো জন্য বেত্রাঘাত, কারো জন্য কড়াই পড়া ঠিক করেছেন। কারো জন্য তেল পড়া, কারো জন্য ফুঁফুঁফুঁ....কে যে কোন পড়ার মধ্যে দিয়ে যাবে দেবালয় তা জানে..... :P

নরক থেকে শুভেচ্ছা রইল।

২| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:০১

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: আপাতত নরকের দরজার সামনে ঢপের চপ নিয়ে দাঁড়িয়ে আছি। জানিনা ভিতরে গিয়ে এটা ঢপ থাকবে না বাস্তবে পরিণত হবে।
প্রথম রাউন্ডে হেসে হেসে হেসে পেট ব্যাথা হয়ে গেল। তবে কিছু ব্যাপারে আমি আবার নৈব নৈব চ।
'কু বলিব না, কু শুনিবো না, এবং কুথায় কানও দেবো না।'হাহাহাহাহাহা.....

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:১০

আখেনাটেন বলেছেন: জানিনা ভিতরে গিয়ে এটা ঢপ থাকবে না বাস্তবে পরিণত হবে। -- হা হা হা;


নরকেও যাবেন আবার 'কু' থেকে মুক্ত থাকবেন এ ক্যামনে সম্ভব। :-P

শুভেচ্ছা রম্যে।

৩| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:১১

করুণাধারা বলেছেন: তুই তো সকালে আমাকে গালি দিস আবার বিকেলে সালাম দিস দেবতা রাজীব নুরের পোস্ট নিয়মিত পড়েন কোন সন্দেহ নেই। :)

চমৎকার রম‍্য!!

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:১২

আখেনাটেন বলেছেন: দেবতা রাজীব নুরের পোস্ট নিয়মিত পড়েন কোন সন্দেহ নেই। --- হা হা হা। দেবতা অনেক কিছুই লক্ষ্য রাখেন দেখচি।


অনেক অনেক শুভেচ্ছা করুণাধারাপা।

৪| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:১৮

রাকু হাসান বলেছেন:


হাহাহাহহাহাহাহাহাহাাহহাাাহাহাহাহহাহাহাহাহাহাহাহা হাসতে হাসতে শেষ B-)) =p~ । রম্যও একটি শক্তিশালী অস্ত্র । আপনার লেখা পছন্দ করে একজন :) । রীতিমত আপনার লেখার প্রেমে পড়েছে B-)) । তাকেও লিংকে শেয়ার করলাম । :P

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:২৪

আখেনাটেন বলেছেন: হা হা হা;

তাহলে একটি কৌতুক শুনুন:
দুই বন্ধু গল্প করছে।

-এক লোক মুরগীর ডিমের বিরাট ব্যবসায়ী। ব্যবসাকে গতিশীল রাখতে সে বিস্তর গবেষণা করে মুরগী ও তোতা পাখির মধ্যে ক্রসের মাধ্যমে এক বিশেষ ধরনের হাইব্রিড মুরগী আবিষ্কার করল।

-তাতে ডিম ব্যবসায়ীর কী লাভ হল? এক বন্ধু জানতে চায়।

- এখন মুরগী ডিম পেড়ে এসে তাকে জানিয়ে যায়, 'বস, ডিম পেড়েছি নিয়ে আসেন'।

শুভেচ্ছা।

৫| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:২৪

চাঁদগাজী বলেছেন:



ব্লগে সাম্প্রতিক সময়ে, হাসার মত কিছু আসছিলো না; কিছুটা অভাব পুরণ হলো, হাসলাম।

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:২৭

আখেনাটেন বলেছেন: চাঁদগাজী বলেছেন:

ব্লগে সাম্প্রতিক সময়ে, হাসার মত কিছু আসছিলো না; কিছুটা অভাব পুরণ হলো, হাসলাম।
-- :D

আপনি হচ্ছেন সেন্স অব হিউমারের গুরু এই ব্লগে। আপনি হেসেছেন জেনে আপ্লুত হলুম।

অনেক অনেক শুভেচ্ছা রইল আপনাকে।

৬| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:২৮

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন: ঠিক আছে।

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:২৮

আখেনাটেন বলেছেন: কী ঠিক আছে, সাজ্জাদ ভাই? আমরা নরকের দরজায় সেটা... নাকি...বেত্রাঘাত আর কড়াই পড়া। :P

৭| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ৮:০২

আরোগ্য বলেছেন: ১। বেত্রাঘাত তো ভালোই, পৃষ্ঠদেশে যে গুর্জের বারি দেয় নি তার জন্য শুকুর।
২. পাঠাদের জন্য সমবেদনা।
৩। দুমুখো সাপের একমুখী বিচার।
৪। আজকের পর বেগুনি খেতে গেলে মুরুব্বির কথা মনে পড়বে।

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:৩৬

আখেনাটেন বলেছেন: হা হা হা;

গুরু আহসান হাবীবের কৌতুক শুনুন ছুটু ভাই;

এক লোক বইয়ের দোকানে গেছে একটা বিশেষ বই কিনতে। কিন্তু কোথাও বইটা পাচ্ছে না বলে তার মেজাজ খারাপ। বহু দোকান ঘুরে শেষে এক দোকানে গেল।

-ভাই 'ভদ্রভাবে কথা বলা শেখার কলাকৌশল' বইটা আছে?

-আছে।

-শালার বাচ্চা তা হলে বইটা বের করছিস না কেন?


৮| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ৮:০৮

রাজীব নুর বলেছেন: আমি হাসবো না অবাক হবো বুঝতে পারছি না।
নরকে আমি যাব না। চাঁদগাজীও আশা করি নরকে যাবেন না।

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:৪০

আখেনাটেন বলেছেন: রাজীব নুর বলেছেন: আমি হাসবো না অবাক হবো বুঝতে পারছি না। -- হাসুন। এবং আয়ু বাড়িয়ে নিন। :)

নরকে আমি যাব না। চাঁদগাজীও আশা করি নরকে যাবেন না। -- না যাওয়াই ভালো। শুনেছি ওখানে গেলে কেউ বাঁচে না। কী ভয়ঙ্কর সর্বনেশে কথা গা!!

শুভেচ্ছা। :P

৯| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ৮:০৯

ইসিয়াক বলেছেন: হাসতে হাসতে পেট ব্যাথা ..................হিহিহিহিহিহি.............
ধ....ন্য..........বা......দ।

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:৪৪

আখেনাটেন বলেছেন: :P


দুই পুরনো বন্ধুর মধ্যে কথা হচ্ছে

- বুঝলি যখন ভার্সিটিতে পড়তাম তখন ছিল সত্যিকারের 'জীবন'।

-আচ্ছা...তারপর?

-তারপর যখন ভার্সিটি জীবন শেষ করে চাকরি জীবনে ঢুকলাম তখন 'জীবন' থেকে 'ন' ঝরে গেল, হলাম 'জীব'...নটা পাঁচটা অফিস করা স্রেফ একটা 'জীব'।

-তারপর?

-তারপর বিয়ে করলাম। এবার জীব থেকে ব'টাও ঝরে গলে, রইল শুধু জী....বউ যা বলে শুধু জী জী করি....। :P

১০| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ৮:১১

রাজীব নুর বলেছেন: ভালবাসি ভালবাসি বলছো তুমি যতোই
বিশ্বাসেরই মেঘে বৃষ্টি ঝরছে ততোই..!!

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:৫০

আখেনাটেন বলেছেন: কী এক ইশারা যেন মনে রেখে একা একা শহরের পথ থেকে পথে
অনেক হেঁটেছি আমি; অনেক দেখেছি আমি ট্রাম-বাস সব ঠিক চলে;
তারপর পথ ছেড়ে শান্ত হয়ে চলে যায় তাহাদের ঘুমের জগতে:---জী.দা.

১১| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ৮:১৫

রাজীব নুর বলেছেন: জাগতিক সকল চাহিদার উর্ধ্বে উঠতে পারলেই মঙ্গল। কারও প্রতি অভিমান, অভিযোগ; আক্রোশ থাকে না।

৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১১:৫৪

আখেনাটেন বলেছেন: “সব ধরনের অনিশ্চয়তা, হতাশা আর বাধা সত্ত্বেও নিজের সবটুকু দিয়ে সফল হওয়ার চেষ্টাই শক্তিমান মানুষকে দুর্বলদের থেকে আলাদা করে”

– থমাস কার্লাইল (স্কটিশ দার্শনিক ও গণিতবিদ)

১২| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ৮:৩১

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন: নিজেকে রক্ষা করলেন বিচিত্র কারণে টারজান০০০৭ সহ রাজীব নূরকেও রক্ষা করলেন - দেবলোকে তো ঘুষ চলে না !!!
আপনার ইন্দ্ররাজ কে আমার পরিচয় দিয়েন? আমি মহাদেব আমি শিব!!!

০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:০০

আখেনাটেন বলেছেন: তারমানে আপনিই সেই দেবতা শিবঠাকুর যাকে টারজান০০০০৭'র প্রতিপক্ষ বিচি জমা দিয়ে নরকে যাওয়ার বন্দোবস্ত করেছে। :P
মাফ করে দ্যান বেচারাকে। শুধু শুধু আমাদের সাথে নরকে থাকছে বনের রাজা। =p~

দেবলোকে তো ঘুষ চলে না !!! -- দেবালয়েরও অবক্ষয় ঘটেছে। :D

শুভেচ্ছা রইল।

১৩| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ৯:৫৮

নাসির ইয়ামান বলেছেন: মন্তব্য করার অবস্থা নাই!

০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:০২

আখেনাটেন বলেছেন: নাসির ইয়ামান বলেছেন: মন্তব্য করার অবস্থা নাই! --- এংকা কতা কন না বাহে/ তোমাক হামি কিন্তু দ্যাকবার পাইচি নরকের দরজাত। :((

শুভেচ্ছা।

১৪| ৩১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১০:০৩

রাকিব আর পি এম সি বলেছেন: হায়রে!!! পুরো সামু পরিবারই কি নরকের তেলে ফ্রাই হবে নাকি!!! কি সাংঘাতিক! :p

০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:০৪

আখেনাটেন বলেছেন: রাকিব আর পি এম সি বলেছেন: হায়রে!!! পুরো সামু পরিবারই কি নরকের তেলে ফ্রাই হবে নাকি!!! --- হা হা হা;

মিঃ স্টিভ জব্বর গেটস তো এক প্রকার ফ্রাই প্যানেই রাখছে সামু পরিবারকে। এ আবার নতুন কি? :((

শুভেচ্ছা রইল।

১৫| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:২৬

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন:






আখেনাটেন আপনাকে ও আপনার নেফারতিতির স্বর্গবাস অনুমোদিত হলো
তথাস্তু

মহাদেব শিব
সিলমোহর

০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:৪৪

আখেনাটেন বলেছেন: হা হা হা;

এ সুখ কী সইবে ঠাকুরমশাই? শেষে দেখা গেল গন্ধব না জানি কি নাম ফলের লোভ করে শেষে আবার নরকে গমন নিশ্চিত হয়। তারচেয়ে নরকই ভালো। এখানে গাজী সাহেবেরা আছেন। গাজী বয়ান শুনেই এরকম দু চার নরককাল পার করে দেওয়া যায়। বেত্রাঘাত, কড়াই পড়া নিয়েও আনন্দে থাকা যাবে। :P

১৬| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:৪১

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: হা হা হা.... =p~

০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:৫৬

আখেনাটেন বলেছেন: :-P :P

এলাকার চেয়ারম্যান ঘোষণা দিলেন, যে পরিবারে ৪টি সন্তান আছে, উনি সেই পরিবারের একটি সন্তানকে ১০ হাজার করে টাকা দেবেন। এতে হাবুল পড়ে গেল মহা চিন্তায়। তার ঘরে সন্তান মাত্র ৩টি।

কি যেন চিন্তা করে সে তার বউকে বলল, ‘বউ একটু অপেক্ষা কর। ও পাড়ায় আমার একটা ছেলে আছে। আমি এখনি নিয়ে আসছি।’ আবুল দৌড়ে গেল ছেলেকে আনতে।

একটু পর ফিরে এসে দেখে যে, তার বউয়ের কাছে মাত্র ১টি ছেলে বসে আছে। আবুল তার বউকে বলল, ‘বউ, আমার আর ২টা ছেলে কই? এই দেখ, আমার আরেকটা ছেলে এনেছি। এবার মোট ৪টা হল।’ আবুলের বউ বলল, ‘ওই দুইটা যার সন্তান, সে নিয়ে গেছে।’ কালেক্টেড। :P

১৭| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১:২৭

জুনায়েদ বি রাহমান বলেছেন: হা হা... এটা আগেও পড়েছি। ইন্টারেস্টিং....

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:২৮

আখেনাটেন বলেছেন: ধন্যবাদ ব্লগার জুনায়েদ বি রাহমান।

ভালো থাকুন।

১৮| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ভোর ৫:২৪

জাহিদ অনিক বলেছেন:

নরকের বুলন্দ দুয়ারে ঠেলাঠেলি করিয়াও সুবিধা না পাইয়া ঈশ্বরের নিকট হইতে আরেকটা জন্ম ভিক্ষা লইয়া সিধা এমিরেট'এ করে এইখানে চলি আলাম!

বড় বড় পাপীদের ভীড়ে আমার ছোটখাট পাপ যমদূর কানেই তুলিল না! কী করা যায় কন তো!

বাই দ্যা ওয়ে,
চাঁদগাজী'ই বোধয় একমাত্র ব্লগার, যাকে অনেকেই বুঝেছেন এবং অনেকেই ভুল বুঝেছেন। আপনি প্রথম দলে।

৩০৪১ সালে দুনিয়া ভেস্তে যাবে, নাসা জানিয়েছে সত্যিই নি?

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:২৮

আখেনাটেন বলেছেন: ধন্যবাদ ব্লগার কবি জাহিদ অনিক।

ভালো থাকুন।

১৯| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ভোর ৫:৫৩

কি করি আজ ভেবে না পাই বলেছেন: ম্যালা দিন নেই,তাই
ব্লগে আজো এ্যামেচারই;
হোক তবু মোর হাল
জানিবার সখ ভারি।

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:২৯

আখেনাটেন বলেছেন: ধন্যবাদ ব্লগার কি করি আজ ভেবে না পাই।

ভালো থাকুন।

২০| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ভোর ৬:৩৪

আনমোনা বলেছেন: বেশী পাপ করার সময় পাই নাই। তাই লাইনে নাম নাই। বাঁচা গেলো।

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:২৯

আখেনাটেন বলেছেন: ধন্যবাদ ব্লগার আনমোনা।

ভালো থাকুন।

২১| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ভোর ৬:৫৯

ইসিয়াক বলেছেন: আবারো এলাম। পড়লাম । মজা পেলাম।প্রিয়তে রাখলাম অতি যতনে।
শুভসকাল

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:৩০

আখেনাটেন বলেছেন: ধন্যবাদ ব্লগার ইসিয়াক।

২২| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:৫৯

টারজান০০০০৭ বলেছেন: যাউক !! এহনও চাঞ্চ আছে তাইলে !! হে হে হে ! :D

ব্যাফক হাসিলাম বাহে ! তয়, মডুর যাতনায় আমিতো অনেক আগেই অবসর লইয়াছি ! কেস ডিসমিস !! ;)

বহুদিন পরে ব্যাপক হাসিলাম ! ধন্যবাদ দিয়া ছোট করিব না ! :P

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:৩০

আখেনাটেন বলেছেন: খুশি হলুম।

ধন্যবাদ ব্লগার টারজান।

ভালো থাকুন।

২৩| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:৫১

রাজীব নুর বলেছেন: জীবন কঠিন হলে জীবনযাপন সহজ হয়। জীবন সহজ হলে জীবনযাপন কঠিন হয়।

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:৩০

আখেনাটেন বলেছেন: হুম।

ভালো থাকুন ব্লগার রাজীব নুর।

২৪| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:৪৭

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: হাহাহাহাহা
আপনার মাথায় এত উদ্ভট সুন্দর গল্প আসে কী করে হাহাহাহাহা

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:৩১

আখেনাটেন বলেছেন: :)

ভালো থাকুন ব্লগার কাজী ফাতেমা ছবি।

২৫| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:৪০

বিদ্রোহী ভৃগু বলেছেন: হাহাহাহহাহাহাহাহাহাাহহাাাহাহাহাহহাহাহাহাহাহাহাহা হাসতে হাসতে শেষ B-)) =p~


সারা দিনের অফিসের ক্লান্তি মুছে গেল ভাই ;) হা হা হা
অসাম!
কড়াই পড়া,
দুরমুষ কষানি =p~ =p~ =p~ =p~


চলুক সিরিজ!
আর আমারটা কিন্তু খেয়াল কইরা!
মনে আছেনা- আমি বিদ্রোহী ভৃগু, ভগবান বুকে এঁকে দিই পদচিহ্ণ ;)
হা হা হা

+++++++++

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:৩১

আখেনাটেন বলেছেন: হা হা হা।

শুভেচ্ছা ব্লগার ভৃগুদা।

ভালো থাকুন।

২৬| ০১ লা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১৬

ঠাকুরমাহমুদ বলেছেন: বিদ্রোহী ভৃগু ভাই, তাঁর শত সহস্র নাম থাকুক তিনি একজন। আর তাঁর বুকে পদচিহ্ণ আঁকা যায় না। কবি নজরুলের করুণ পরিনতি আপনি জানেন, নতুন করে লেখার কিছু নেই। এখানে আর রম্য রইলো না - আপনার কথায় খুবই কষ্ট পেলামরে ভাই। খুবই কষ্ট পেলাম।।

২৭| ০২ রা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:৫৮

বিদ্রোহী ভৃগু বলেছেন: @ ঠাকুর মাহমুদ ভাই, আপনার মন্তব্য ২৬ এর উত্তরে বলছি- আপনি কষ্ট পেয়েছন জেনে আমি অত্যন্ত মর্মাহত।
না ভাই নজরুল এটা লিখেছেন বলে তার কষ্টকর জীভন ছিল এমন কূপমন্ডুক ধারনা অতি মৌলবাদীরা করতে পারে। আপনি নিশ্চয়ই তা বিশ্বাস করেন না।
বরং দেখুন আল্লাহ উনার প্রার্থনা চূড়ান্ত মঞ্জুর করেছেন-
মসজিদেরই পাশে আমার কবর দিও ভাই
যেন গোরে থেকে মুয়াজ্জিনের আজান শুনতে পাই।

উনার পবিত্র আত্মার মহত আত্মার জন্য শুভকামনা ও দোয়া রইলো।

আপনি সম্ভবত সময় করে ভৃগু মুনির কাহিনীটা মনে হয় পড়েন নি।
আপনার সময় থাকলে চোখ বুলিয়ে নেবেন। অনেক কিছু ক্লিয়ার হয়ে যাবে আশা করি।
ভৃগু মুনির সাতকাহন

ভাল থাকুন। রম্যেই থাকুন।

২৮| ০৬ ই অক্টোবর, ২০১৯ রাত ১১:২১

মাহের ইসলাম বলেছেন: আপনি কোথায় ব্যস্ত হয়ে পড়লেন?

দেখা যাচ্ছে না, অনেকদিন ব্লগে !

ভালো থাকবেন, শুভ কামনা রইল।

১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:৩৪

আখেনাটেন বলেছেন: আমার মতো নগণ্য একজনের কথা মনে রেখেছেন জেনে আপ্লুত হলুম।

জীবন জীবিকার জন্যই দূরে থাকা। পোস্ট দিয়েছি। আপনার ব্লগেও অনেকদিন যাওয়া হয় নি। সময়করে যাব।

ভালো থাকুন ব্লগের মাহের ইসলাম।

২৯| ১০ ই অক্টোবর, ২০১৯ বিকাল ৪:৪৯

মা.হাসান বলেছেন: আমি নিয়মিত বেগুনি খাইতাম (রোজার মাস বাদে, ঐ সময়ে বেগুন কেনার সামর্থ থাকে না), এখন আরোগ্য ভাইয়ের দশা হইলো।

দেবতা ইন্দ্রের ওপেন হার্ট সার্জারির জন্য ওনাকে হাসপাতালে নেওয়া হইয়াছিল নাকি হাসপাতাল বাসায় আনা হইয়াছিল সেই কৌতুহল রহিয়া গেল।

২২ শে অক্টোবর, ২০১৯ দুপুর ২:০৫

আখেনাটেন বলেছেন: হা হা হা;

দেবতা ইন্দ্রের ওপেন হার্ট সার্জারির জন্য ওনাকে হাসপাতালে নেওয়া হইয়াছিল নাকি হাসপাতাল বাসায় আনা হইয়াছিল সেই কৌতুহল রহিয়া গেল। -- কিছু কিছু জিনিস রহস্যাবৃত থাকাই ভালো। প্যানডোরার ঝাঁপি খুলে দিলে কৈ থেকে কি হয়ে যায়... ;)

শুভেচ্ছা।

৩০| ১৯ শে অক্টোবর, ২০১৯ সকাল ৯:৫৬

সোহানী বলেছেন: দেবতা ইন্দ্র কি আগে ছাত্রলীগ করতো????? তাইলে এমন নিষ্ঠুর হয় কেমনে B:-) B:-)

ঠাকুরমাহমুদ ভাই, নজরুল চরম বোকা ছিল। কোন দল করে নাই, নিজের স্বার্থ দেখে নাই তাই তার কপালে এমন করুন পরিনতি জুটেছিল। সে যদি বিশ্ব কবির মতো বুদ্ধিমান হতো, বঙ্কিমের মতো ধান্দাবাজ হতো, জসিমউদ্দিনের মতো চালা্ক হতো কিংবা হালের আধুনিক কবিদের মতো রাজনৈতিক ভোল পাল্টাতে জানতো তাহলে তাঁকে এভাবে ধুকেঁ ধুকেঁ মরতে হতো না। নোবেল না হলেও আরো ডজনখানেক পদক সহ কয়েক মিলিয়ন সম্পদ রেখে যেতে পারতো।

অনেক দিন পর প্রাণখুলে হাসলাম। চলুক সাথে আছি।

২২ শে অক্টোবর, ২০১৯ দুপুর ২:০৭

আখেনাটেন বলেছেন: সোহানী বলেছেন: দেবতা ইন্দ্র কি আগে ছাত্রলীগ করতো? -- হা হা হা; আপনারা পারেনও মাইরি। :-B


অনেক অনেক শুভেচ্ছা সোহানীপাকে।

৩১| ০২ রা নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪৮

সুমন কর বলেছেন: হাহাহাহা......দারুণ লাগল। তবে ওরা ভুল না বুঝলেই হয়।।

০৮ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৪৮

আখেনাটেন বলেছেন: :D


অনেক অনেক শুভেচ্ছা মন্তব্যের জন্য কবি।

৩২| ০৭ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:২০

খায়রুল আহসান বলেছেন: দেবতা ইন্দ্ররাজ আমাদের ব্লগের একজন একনিষ্ঠ পাঠক, এতে আমার বিন্দুমাত্র সন্দেহ নেই। নইলে যে তিনজনের বিচার তিনি করলেন, তাদেরকে এতটা সূক্ষ্মভাবে চিনিলেন কেমনে?
চমৎকার রম্য, প্লাস + +।

০৮ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৫০

আখেনাটেন বলেছেন: [siদেবতা ইন্দ্ররাজ আমাদের ব্লগের একজন একনিষ্ঠ পাঠক, এতে আমার বিন্দুমাত্র সন্দেহ নেই। -- হা হা হা; আমারও সন্দেহ নেই। :D

লেখা ভালো লেগেছে জেনে আপ্লুত হলুম প্রিয় ব্লগার।

সদা সুস্থ থাকুন।

৩৩| ৩০ শে জানুয়ারি, ২০২০ বিকাল ৪:৪৫

মোঃ মাইদুল সরকার বলেছেন:
ব্লগার বলেই পার পেয়েছে সবাই নয়তো নরকের আগুনে পুড়ে ছাড়খাড় হতো।

তখন নাকে খত দিয়ে বলত ব্লগ আর নয়।

রম্য-এ +++++++++++++++++++লন।

৩১ শে জানুয়ারি, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:৫৭

আখেনাটেন বলেছেন: রম্য পড়ে ভালো লেগেছে জেনে খুশি হলুম। :D

ভালো থাকুন।

৩৪| ০৩ রা জুলাই, ২০২০ সকাল ১১:২১

তারেক ফাহিম বলেছেন: আপনার লিখার চরম ভক্ত।

কিছুদিন ব্লগে অনিয়মিত থাকায় পড়া হয়নি।

খুঁজে খুঁজে পড়ে নিচ্ছি।

অসম্ভব ভালো লাগলো।

হাসতে হাসতে পেট ব্যাথা।

গাজী ভাইর মন্তব্যতে সাবলীল দেখছি। :)

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.