নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

যা ভাল লাগে তাই করি

মুশফিকুর রহমান শাওন

https://mushfiqshaon.com/

মুশফিকুর রহমান শাওন › বিস্তারিত পোস্টঃ

BCS vs Higher Study: Which one should I go for?

১০ ই মে, ২০২১ সকাল ১১:২১


বহুল বিতর্কিত একটা টপিক নিয়ে আজ কথা বলতে চাই। বিসিএস নাকি হায়ার স্টাডি?
একটা পরিসংখ্যান দিয়ে শুরু করি, Wikipedia.org এর তথ্য মতে, প্রতি বছর বাংলাদেশে ৪৫০০০০ থেকে ৫০০০০০ ক্যান্ডিডেট বিসিএস পরীক্ষার জন্যে রেজিস্ট্রেশন করে। তার মধ্যে তিনটি ধাপ পেরিয়ে মাত্র ০.০২ পারসেন্ট বিসিএস ক্যাডার হয়। হ্যাঁ আপনি ঠিকই পড়েছেন, ৫ লাখে মাত্র ০.০২% (ক্যাডার+নন-ক্যাডার মিলিয়ে)। ভাবা যায়? এই মাত্র শূন্য দশমিক শূন্য দুই শতাংশ সাকসেস রেটের পেছনে একটা অমিত সম্ভাবনাময় শিক্ষার্থী ৩-৬ বছর ছুটছে। ৩-৬ বছর কেন লিখলাম? কারন বিসিএস এর পেছনে মিনিমাম সময় দেয়া লাগে ৩ বছর।
বাংলাদেশে বিগত কয়েক বছরে যে বিসিএস ট্রেন্ড চালু হয়েছে তা এককথায় ভয়ংকর। কেন একথা বলছি? ধরেন, একজন ডাক্তার বা ইঞ্জিনিয়ার (বুয়েট বা রুয়েট ইত্যাদি) সরকারি ভর্তুকিতে পড়ে মানে আরো সহজ ভাষায় জনগনের ট্যাক্সের টাকায় ৪-৫ বছর পড়ে সে আবার বিসিএস এর পেছনে দোড়াচ্ছে ফরেন বা প্রশাসন ক্যাডার হবার আশায়। আচ্ছা, জনগণ যে আপনার পড়াশোনার পেছনে এই ৪-৫ বছরে ২০-২৫ লাখ টাকা খরচ করলো সেইটার কি হবে? আর আপনার শিক্ষাগত অর্জনের ই বা কি হবে?
শাহাবাগ পাবলিক লাইব্রেরি বা ঢাকা ইউনিভার্সিটির যে কোনো হলে গেলে দেখবেন পোলাপাইন সারাদিন নিজের সাবজেক্টে দক্ষ হওয়া বাদ দিয়ে কার বউ কবে মরছে, কে কবে কোথায় হাগু করছে এইসব মুখস্ত করছে (শুনতে স্যাটায়ার লাগলেও সত্যি)। এখন এত্ত উন্মুক্ত ইন্টানেটের যুগে কোথায় একজন বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া শিক্ষার্থী হলে বসে Harvard or MIT or UC Berkeley or Oxford এর বাঘা বাঘা প্রফেসরদের FREE কোর্স করবে edx or Coursera তে, না উনি পড়ছেন পলাশীর প্রান্তরে কে কার লগে বিশ্বাসঘতকতা করছে!!! Unbelievable!!!
একসময় এই দেশ থেকে সত্যেন বোস, জগদীশ চন্দ্র, জ্ঞানতাপস আব্দুর রাজ্জাক, অমিত চাকমা, এফ আর খান প্রমুখ তৈরি হইতো আর এখন তৈরি হয় সুশান্ত পালেরা । আমি সুসান্তদের ছোট করছি না কিন্তু উনারা জেনে বুঝে যেভাবে এই জাতিকে বিসিএস পাগল বানাচ্ছে বা নষ্ট করছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না। উনারা এখন সমগ্র জাতির ক্রেজ। কারন তারা বিসিএস দিয়ে দুনিয়া উল্টায়া দিছে!!! আমি পাবলিক সার্ভিস এর বিপক্ষে না। অবশ্যই দেশ চালাতে গেলে মেধাবীদের দরকার আছে পাবলিক সার্ভিসে কিন্তু একজন ঢাকা মেডিকেলে পড়া ডাক্তার বা বুয়েট পড়ুয়া প্রকৌশলী কেন ফরেন বা প্রশাসন ক্যাডার হবার জন্য দোড়াতে হবে? মেধার ও সম্পদের কি নিদারুণ অপচর!!! আবশ্যই একজন ডাক্তার বা ইঞ্জিনিয়ার তার ট্রেডে বিসিএস ক্যাডার হয়ে দেশের সেবা করতে পারে। এতে কারো কোনো আপত্তি থাকার কথা নয়।
আমি যা দেখি, বিসিএস এর পেছনে আছে একদম নগ্ন ভাবে ক্ষমতা আর টাকার খেলা। এই দেশে একজন ছেলে Harvard or Oxford থেকে PhD করে আসলেও তাকে হেয় করে বলা হয় তুমি তো বিসিএস এ পাস করো নাই, তুমি আবার কিসের মেধাবী।
আসলেই যে দেশে গুণীর কদর হয় না, সে দেশে গুণী জন্মায় কিন্তু থাকেনা।
এখন আসেন হায়ার স্টাডি এর কথায়। আমার জানামতে, একজন শিক্ষার্থী যে হায়ার স্টাডি এর জন্য অন্তত ১২-১৮ মাস লেগে থেকেছে এমন কাউকে আমি আজ পর্যন্ত দেখি নাই যে সে বাইরে পড়তে যেতে পারেনি (এক্সেপশনাল কেস বাদে)। তার মানে এইটার সাকসেস রেট প্রায় ৮০-৯০ শতাংশ।
তাহলে সমস্যা কোথায়? যেখানে পাশের দেশ নেপাল থেকে প্রতি বছর শুধু আমেরিকাতেই হায়ার স্টাডি এর জন্য শিক্ষার্থী যায় ২০,০০০ (যাদের জনসংখ্যা মাত্র ৩ কোটি), সেইখানে বাংলাদেশ থেকে মাত্র ৮০০০ ( যেখানে আমাদের জনসংখ্যা প্রায় ২০ কোটি। মানে আমাদের প্রায় ৭ গুন বেশি শিক্ষার্থী শুরু আমেরিকাতে উচ্চশিক্ষার উদ্দ্যেশ্যে নিয়ে পড়তে যায়। অনান্য দেশ এর হিসাব বাদ ই দিলাম। তাহলে আমাদের সমস্যাগুলো কি?

১। আমার এত দিনের হায়ার স্টাডি, GRE & IELTS নিয়ে কাজ করার সুবাদে বুঝেছি, আমাদের প্রধান সমস্যা হলো তথ্য বিভ্রাট (Misinformation)। অনেকেই মনে করে বাইরে পড়তে যেতে অনেক টাকা লাগে, অনেক সময় লাগে, দালাল ধরা লাগে, অনেক মেধাবী হওয়া লাগে, ভালো বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়তে হয়, খুব ভালো সিজিপিএ লাগে, পাব্লিকেশন্স লাগে ব্লা ব্লা ব্লা। যার কোনোটাই ঠিক নয়।
আপনি যদি ঠিকঠাক মত প্ল্যান করতে পারেন তাহলে বিমান ভাড়া সহ বড়জোর ২ লাখের বেশি টাকা লাগার কথা না। কিভাবে? IELTS দিতে ১৯০০০, GRE দিতে (যারা USA or Canada নিয়ে ভাবছেন) ১৭৫০০, ৪ টা ইউনিভার্সিটি (এই জায়গাটা একটু ট্রিকি, আপনার প্রোফাইল অনুয়ায়ী, আর আগে থেকেই প্রফেসর কনফরম করে এপ্লাই করলে ৪ টাই অনেক বেশি) এপ্লাই করতে ধরলাম ৪০,০০০ (এখন আবার কোভিড এর কারনে অনেক ভার্সিটি Admission Fees waive করে দিছে), এম্বাসি ফিস ১৫০০০, বিমান ভাড়া ৭০-৯০ হাজার (দেশ ভেদে)। তাইলে মোট কত হইলো?
ভাইরে একখান সরকারি চাকরির জন্যে ২০ লাখ টাকা ঘুষ দিতে পারেন আর উচ্চশিক্ষার জন্যে ২ লাখ টাকা খরচ করতে পারবেন না? সরকারি চাকরি ভালো জিনিস, কিন্তু যে লাউ সেই কদু টাইপ! কেন বলছি? এই দেশে একজন দিন মজুর যে বিষযুক্ত খাবার খায় আপনিও তাই খেতে বাধ্য, আপনার আর দিনমজুরের সোস্যাল সিকিউরিটি একই, পৃথিবীর সবচেয়ে দূষিত বাতাস আপনিও খাইবেন সেও খাইবে? আরও কমু??? তাইলে লাবডা হইলো কি? একটু দামি গাড়ি এর দামি বাড়ি? এই?
কিন্তু উন্নত দেশে আপনি যে Life Style পাবেন, Multi-diversified Community পাবেন, যে ধরনের Fresh Food পাবেন তা আপনিও ওইখান থেকে কল্পনাও করতে পারেন না। আর একজন সরকারি চাকুরিজীবী সারাজীবনের বেতন আর পেনশনের টাকা মিলায়ে যা কামাবে তা আপনি ১০ বছরেই কামাইতে পারবেন ইনশাআল্লাহ।
এখন Internet এর যুগ, সব তথ্য Youtube এ পাওয়া যায়। তাই নিজের সমস্ত কাজ নিজেই করতে পারবেন, দালাল ধরার যুগ গেছেগা। আর বাইরে পড়তে যেতে যেকোনো স্বীকৃত বিশ্ববিদ্যালয় হতে ২.৫ থেকে ৩ সিজিপিএ নিয়ে পাশ করলেই হবে। আর বেশি কিচ্ছু দরকার নাই। দরকার আছে শুধু লেগে থাকার ইচ্ছা, শেখার ইচ্ছা। ব্যাস।

২। দ্বিতীয় কারন্ডা হইলো, আমাদের সাহসের অভাব। আমরা কাজ করতে ভয় পাই। একটু সাহস নিয়ে আজ থেকে লেগে দেখুন না কি হয়!!! একটু কষ্ট কইরা একখান GRE, আর একখান Language Test (IELTS or TOEFL or PTE ) দিয়া ফেলেন। বড়জোর সব মিলায়ে ৬-৮ মাস লাগবে আপনি যদি কন্সিস্টেন্ট থাকেন তাইলে। তার সাথে আজ থেকেই ভার্সিটি খোঁজা, SOP & LOR কিভাবে লিখতে হয়ে শেখা শুরু করেন।

৩। আরেকটা বড় কারন হইলো, বিসিএস সাধুবাবারা। উনারা বিসিএস রে এমন মহিমান্বিত কইরা ফালাইছেন যেন মনে হয় বিসিএস পাস আর বেহেশত একই জিনিস। বিসিএস পাইলে বেহেশতের মত সুন্দরী বউ পাইবেন সাথে রাজত্ব, অফুরন্ত ধনদৌলত, চাহিবামাত্র যা ইচ্ছা পাইবেন! ভাইগো এইসব সবই অলীক কল্পনা। যারা দেশে সেটেল হতে চান তাদের জন্যে বিসিএস এর উপ্রে কিছু নাই কিন্তু যারা আল্লাহ্ এর দেয়া দুনিয়াডা দেখতে চান, আল্লাহ্ এর তৈরি বিভিন্ন কালচারের মানুষদের সান্নিধ্যে আসতে চান, উন্নত শিক্ষা আর জ্ঞান অর্জন করতে চান তারা ওইসব সাধুবাবাদের কথায় না ভুইল্লা আজ থেকে লেগে পড়ুন। ভাইরে, 0.02% Success Rate এর পিছনে জীবন না দিয়ে ৯০% সাকসেস রেট ও উন্নত জীবনের দিকে আসেন।

৪। আরেক্কখান বড় অসুবিধা হইলো, বাঙালি আসল যায়গায় ইনভেস্ট করেনা। সে দালালরে প্রসেসিং ফি ব্লা ব্লা খরচ বাবদ লাখ টাকা দিবে এবং ধরা খাবে কিন্তু ২০,০০০ টাকা দিয়ে GRE or IELTS করবে না!!! দিনের পর দিন সময় নষ্ট করবে কিন্তু একজন মেন্টর এর কাছে যাবে না! আরেহ ভাই, আপনি এইডা আপনার নিজের ক্যারিয়ার এর জন্যে ইনভেস্ট করছেন। যেইটার লাখ গুন আপনি ফেরত পাবেন যদি কামিয়াব হোন। তাই, সঠিক জায়গায় ইনভেস্ট করতে শিখুন।

এখন শুধু নিজেকে গড়ে তোলার সময়। আগামী ৬ মাস Disappear হয়ে যান। Hibernation বা শীতনিদ্রায় চলে যান ব্যাঙের মত। এই ৬ মাসে যে Knowledge আপনি অর্জন করবেন সেইটা দিতে আগামী ৬০ বছর বসে খেতে পারবেন ইনশাআল্লাহ।
শুভ কামনা আর ভালোবাসা রইলো আপনাদের জন্য। আমরা একদিন গোটা দুনিয়া শাষন করবো ইনশাআল্লাহ।

মন্তব্য ১০ টি রেটিং +২/-০

মন্তব্য (১০) মন্তব্য লিখুন

১| ১০ ই মে, ২০২১ দুপুর ১২:১৪

আমি সাজিদ বলেছেন: আমাদের রাজনীতি সমাজ ব্যবস্থা ইদানীং পাওয়ার প্র‍্যাকটিস করতে উৎসাহিত করে। সদ্য যোগ দেওয়স একজন সরকারি ইঞ্জিনিয়ার বা কৃষিবিদ ও একজন প্রশাসন ক্যাডারের লোকের সুবিধা অসুবিধা ও চলনে আকাশ পাতাল তফাত। আমরা এইগুলোকে মেনে নিয়ে সমাজ থেকে উৎসাহিত দিচ্ছি। আমাদের কেমনে কি হবে? চমৎকার লিখেছেন। যুক্তিযুক্ত লেখা।

২| ১০ ই মে, ২০২১ দুপুর ১২:৪৭

সোনাবীজ; অথবা ধুলোবালিছাই বলেছেন: হায়ার স্টাডিজে যান।

৩| ১০ ই মে, ২০২১ দুপুর ১২:৫১

খায়রুল আহসান বলেছেন: আলোচনাটি ভাল লেগেছে। আশাকরি, যাদের ক্ষেত্রে এটি প্রযোজ্য, তারা বিষয়টি ভেবে দেখবেন এবং সেই অনুযায়ী আমল করবেন।

৪| ১০ ই মে, ২০২১ দুপুর ১২:৫২

খায়রুল আহসান বলেছেন: আমি হলে উচ্চতর শিক্ষাকেই বেছে নিতাম, নিঃসন্দেহে।

৫| ১০ ই মে, ২০২১ দুপুর ১:১১

শায়মা বলেছেন: আমারও মতামত হায়ার স্টাডিজ।

আমি জানিনা আমি কেনো সরকারী জব তেমন লাইক করি না। :(

৬| ১০ ই মে, ২০২১ দুপুর ১:৩৯

সন্ধ্যা রাতের ঝিঁঝিঁ বলেছেন: পোস্টটি ভাল লাগছে। গত একবছর "ওহ কি করছো, বিসিএস দিচ্ছ না? এখন কি পিলিতে(প্রিলি)? এই প্রশ্ন শুনতে শুনতে আমি ক্লান্ত। এ জাতি বিসিএস নামক বিষপোড়া থেকে বেরিয়ে আসুক।
সরকারি চাকুরির জন্য ১০-১২ লাখ দিতে রাজি, তাহলে IELTS করতে সমস্যা কোথায়? এটাই বুঝাইতে পারলাম না :(

৭| ১০ ই মে, ২০২১ দুপুর ২:০৪

রাজীব নুর বলেছেন: বিসিএস বাদ দেন। শান্তি নাই।
পড়ে যান। শুধু পড়ে যান।

৮| ১০ ই মে, ২০২১ সন্ধ্যা ৭:৫৪

রাজীব বলেছেন: স্যাস্থ্যমন্ত্রি, স্বাস্থসচিব কি ডাক্তার হওয়া উচিত নয়। যারা বাংলা, ইংরেজী, ইতিহাস পড়ে তারা কি সরকারের খরচে পড়ে না? তারা কেন সাহিত্যিক, ইতিহাসবিদ না হয়ে ক্যাডার হতে যায়? মত দোষ ডাক্তার ও ইন্জিনিয়ারদের।

২১ শে মে, ২০২১ বিকাল ৩:০৩

মুশফিকুর রহমান শাওন বলেছেন: আমাদের দেশে সরকারী চাকরি করলেও তারা কিন্তু দূর্নীতিবাজ এম্পি মন্ত্রিদের উপর দিয়ে সৎ ভাবে কাজ করতে পারে না। তখন আস্তে আস্তে সেও অসৎ উপায় অবলম্বন করে। তাহলে লাভ কি হল? কয়টা মন্ত্রনালয় থেকে আমরা নাগরিক সুবিধা পাই?

৯| ১০ ই মে, ২০২১ সন্ধ্যা ৭:৫৮

রাজীব বলেছেন: ব্রেইন ড্রেইন নিয়ে আপনার কি ধারনা?

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.