নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

\n

মা.হাসান

মা.হাসান › বিস্তারিত পোস্টঃ

কিরপিনের ডিম ভাজা রেসিপি

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:২৩






ঘটক এক সাত্ত্বিক ব্রাহ্মণের কন্যার জন্য পাত্রের খবর নিয়ে এসেছে। পাত্র কেমন জানতে চাওয়ায় ঘটক বলল ---পাত্রের সবই ভালো। দোষের মধ্যে এই খালি একটু পিঁয়াজ রসুন খায়। হবু জামাইয়ের এরকম চরিত্রের কথা শুনে উত্তেজিত ব্রাহ্মণের জিজ্ঞাসা ---পিয়াজ রসুন খায় মানে?
ঘটকের সামাল দেওয়ার চেষ্টা-- না সব দিন খায় না, যেদিন একটু মাংস টাংস খায় আর কি।
হতভম্ব ব্রাহ্মন ফেটে পড়েন-- ছেলে মাংস খায়?
না, না সব দিন খায় না যেদিন একটু এটা-সেটা পান করে আরকি।
ছেলে মদও খায়? ব্রাহ্মনের হার্ট অ্যাটাক হবার উপক্রম।
না না, সব দিন কি আর খায়, যেদিন একটু এদিক সেদিক যায় ঐ দিন খায় আর কি।


তো সরকার বাহাদুর পেঁয়াজ রসুন ও আদার দাম কন্ট্রোলে রেখে আমাদেরকেও কন্ট্রোলে রেখেছেন যেন আমরা এদিক সেদিক যেতে না পারি।



জুন আপার আজকের পেয়াজের পোস্টের কমেন্টে যেমন বলেছি, বাসায় আপাতত একা আছি । কদিন আগে বেগুন ভর্তা খাওয়ার শখ হয়েছিল। ১০০ গ্রাম পেঁয়াজ কিনেছিলাম ১৫ টাকা দিয়ে। বেগুনের দাম শুনে পেঁয়াজ ওয়ালাকে পেঁয়াজ ফেরত দিয়ে পয়সা ফেরৎ নিয়ে বাসায় আসার সময় ৬০ টাকা কেজি দরে পেয়ারা কিনে বাসায় এসেছি। সকাল সন্ধা পেয়ারা খাই, দুপুরবেলা অফিসের ক্যান্টিনে ভাত। আজ কিনেছিলাম ১০ টাকার ভাত, ১০ টাকার কচুর তরকারি।

নতুন দিল্লিতে রেলস্টেশনে প্রথমবার পৌছানোর পর পাহাড়গঞ্জের দিকের প্লাটফর্ম দিয়ে নেমে দেখি অনেক রেস্টুরেন্ট। দেখলাম একজন টিকি ওয়ালা ব্রাহ্মণকে ধরে পান্ডারা টানাটানি করছে। পন্ডিতজি আমার দোকানে আসুন, উত্তম নিরামিষ। আর একজন আরেক কাঠি বাড়া-- পন্ডিতজি আমার দোকানে আসুন, পেঁয়াজ রসুন বিহীন নিরামিষ। পুরাতন ঘটনা আজ কেন যেন মনে পড়ে গেল, আজ ইচ্ছে হলো পেঁয়াজ বিহীন ডিম ভাজা খাবার। যা খোলতাই স্বাদ হয়েছিলো, আপনাদের সাথে রেসিপি শেয়ার করার লোভ সামলাতে পারছি না।

উপকরণঃ একটা ডিম, আধখানা কাঁচামরিচ, এক চিমটি লবণ, দশ গ্রাম মত কুচানো পেয়ারা, একটি হোমিওপ্যাথি ওষুধের ড্রপার, ২ ফোটা তেল রান্নার তেল।






কড়াইতে ড্রপার দিয়ে দু ফোটা তেল ফেলে দিন। এরপর ডিম ভেঙে তার মধ্যে কাঁচা মরিচ পেয়ারা লবণ ভালো করে ফেটিয়ে নিন। কিরপিন বাটিতে ডিম ভাঙার পক্ষে না , এতে বাটিতে অনেকখানি ডিম লেগে থাকে যা নষ্ট। এরপরে মৃদু আঁচে চুলায় দিয়ে দিন। সুযোগ হলে দু মিনিট পর উল্টে দেবেন। পরিবেশনঃ কমপক্ষে চার জনের জন্য (খানিকটা আজ খেয়েছি, কাল তিন বেলা বাকিটা খাবো)।




পেয়ারার অভাবে তুলসী পাতা অথবা পেঁয়াজ পাতা ব্যবহার করতে পারেন। ডিমের অভাবে ভাতের মাড়ের মধ্যে এক চামচ বেসন গুলিয়ে ব্যবহার করতে পারেন। খাবার এনজয় করুন। শেয়ার করতে ভুলবেন না।

শেষ করার আগে একখানা শিক্ষা মূলক ঘটনা। গাজীপুরের টিপু ভাই বাড়ির পাশের পুকুর থেকে হুইল ছিপে কালবাউস মাছ ধরেছে। ভাবিকে বলছে --- গিন্নি মাছটা আজকে ভালো করে গ্রিল করো।
গিন্নির জবাব-- গত মাসে ৯০০ টাকা কারেন্ট বিল এসেছে। গ্রিল প্যাক করে বিক্রয় ডটকমে বেঁচে দিয়েছি।
অফ হয়ে যাওয়া টিপু ভাইয়ের পাল্টা প্রস্তাব-- তাহলে একটু ভালো করে মাখন দিয়ে ফিশ মাখানি রান্না করো না কেন?
ভাবির ঝ্যামটা -- মাখন কি গাছে ধরে? মাখনের কেজি হাজার টাকার কাছাকাছি। কোথায় পাব?
তাহলে একটু ভুনা করেই রান্না করো না কেন।-- কাতর টিপু ভাইয়ের মিনতি।
পেঁয়াজ রসুন ও আদার দাম জানো? অগ্নিমূর্তী ভাবির মিসাইল।
গ্যাস বেলুনের গ্যাস বের হবার পর চুপসে যাওয়া বেলুনের মত অবস্থা টিপু ভাইয়ের। শেষ চেষ্টা-- তবে একটু সরষের তেলেই ফ্রাই করে ফেলো না কেন।
হুহ । উনি যেন ঘানি বানিয়ে রেখেছেন। বাসায় পামওয়েল ছাড়া কিছু নেই।

বড়শি থেকে মাছ খুলে উত্তেজিত টিপু ভাই পুকুরের দিকে ছুঁড়ে ফেলতে ফেলতে বললেন দূর হ।

পানি থেকে মাথা উঠিয়ে মাছের ডায়ালগ-- সরকার দীর্ঘজীবি হোক ।
-----------------

বাজারে গেলে মাছ মাংস আদা রসুন সব কিছুর দোকান থেকে একই ডায়লগ শুনতে পাই-- সরকার দীর্ঘজীবি হোক।
জয় বাংলা। বর্তমান সরকার ২০৪১ সাল পর্যন্ত থুক্কু কেয়ামত পর্যন্ত কায়েম থাকুক।
--------------


খাবলা খাবলা পেঁয়াজ না হলে যাদের খাওয়া হয় না তারা পাকিস্তান চলে যায় না কেন?


মন্তব্য ৭৬ টি রেটিং +১৩/-০

মন্তব্য (৭৬) মন্তব্য লিখুন

১| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৩১

হাবিব স্যার বলেছেন: ভাইরে ভাই, আপনার রেসিপি অস্কার পাবার উপযোগী।

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৩৫

মা.হাসান বলেছেন: ভাইরে, চিন্তায় আছি, কাল না আবার পেয়ারার দাম বেড়ে যায় :(

ভাবিকে বলবেন, রেসিপি ট্রাই করেন, খেয়ে দেখেন, কেমন লাগলো জানাবেন।

২| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪৪

বন্য যোবায়ের বলেছেন: তাহলে ২০৪১ সালেই বাংলাদেশে কেয়ামত হচ্ছে? B-) :D

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪৯

মা.হাসান বলেছেন: তওবা তওবা ভাই, ২০৪১ এ উন্নয়নের প্রথম পর্ব শেষ, এর পরে আমরা চান্দের দেশে বাংলাদেশের কলোনি বানাবো। সাথে থাকবেন কিন্তু।

৩| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৪৯

সালাহ উদ্দিন শুভ বলেছেন: যে রেসিপি দিছেন মাশাল্লাহ, এতে পরে পরবর্তী বছর এমনিতেই পেয়াজের বাম্পার ফলন হবে আশা করা যায়। অন্ততপক্ষে এই রেসিপি প্রতিরোধ করার জন্যে হলেও :-*

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৫৩

মা.হাসান বলেছেন: আমরা তখন পেঁয়াজ এক্সপোর্ট করবো।

খাদ্যাভ্যাস বদলাইতে হইবে। অ্যাডাপটেশন করিতে হইবে। পেয়ারার দাম বাড়িলে তুলসি পাতা বা ধনিয়া পাতা যাহা পাওয়া যায়। ডিমের দাম বাড়িলে বেসন এবং ভাতের মাড়। মোট কথা উন্নয়নের বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র চলিবে না।

৪| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৫২

ইসিয়াক বলেছেন: জয় মাছ বাবাজীর জয়!!!!!!!!!!!!!!!

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৫৫

মা.হাসান বলেছেন: জয় মন্ত্রী মশাইদের জয়। ষড়যন্ত্রকারীরা নিপাত যাউক।

অফুরান শুভেচ্ছা ইসতিয়াক ভাই। রাজীব ভাই কবে ফিরবে জানা আছে?

৫| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০২

ইসিয়াক বলেছেন: মা.হাসান ভাই কাল তো রাজীব ভাই ফিরছেন কলকাতা থেকে
ওনাকে না হয় বলে দেই আমাদের ব্লগার ভাই বোনদের জন্য কয়েকটন পেঁয়াজ উপহার নিয়ে আসুক ...। প্রস্তাবটা কেমন?
..।ও রাজীব ভাই যদি নিজে ব্যবসা খুলতে চায় তো অন্য কথা.....
৥আজতো ব্লগ একেবারে পেঁয়াজময় হয়ে গেল ।

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:১৫

মা.হাসান বলেছেন: উনি আকাশ পথে ফিরবেন সম্ভবত। লাগেজ বেশির ভাগ প্লেনে লাগেজ অ্যালাউন্স কুড়ি কেজি, সাথে হাত ব্যাগ আরো আট কেজি। আটাশ কেজি পেয়াজের দাম ঢাকায় ৫৬০০ থেকে ৬০০০ (কাল আরো বাড়তে পারে)। ওনার কেনা পড়বে ৩০০ টাকার মতো। প্লেন ভাড়া দেয়ার পরেও কিছু থাকবে।

তবে রাজীব ভাই নিজেই ব্যবসা করতে চাইলে ব্লগে ওনাকে সাইজ করে দেব।

আজতো ব্লগ একেবারে পেঁয়াজময় হয়ে গেল ।
দেখেন তো, এত পেঁয়াজ, এর পরেও ষড়যন্ত্রকারীরা বলে পেয়াজের অভাব।

৬| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০৪

সোহানী বলেছেন: হাহাহাহাহা.............. পেয়ারা দিয়া ডিম ভাজার কারনেই তো বাজারে পেয়ারার দাম উর্ধ্গতি ;) । আগি বুঝি নাই কেন??? এথন বুঝবার পারছি!!!

কোন অসুবিধা নাই.... পেয়াজ ছাড়া পেয়ারা ধরুম, পেয়ারা ছাইড়া ঘাস ধরুম :P ডিম ছাড়া ভাতের মার ধরুম :#) .... তাও আমরা খুশি B-)) । উন্নয়নের তেলে ডুবছি উঠছি :P

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৪

মা.হাসান বলেছেন: পেয়ারার দাম বাইড়া গেল নাকি? এইবার কিছু পেয়ারাও আমদানি হোক। তবে কিরপিনকে কাবি করা মুশকিল। পেয়ারার বদলে মূলা, আলুর খোসা এসব ট্রাই করবো। ঘাসের আইডিয়া ভালো, তবে মন্ত্রী মহোদয়রা আবার মাইন্ড না করে যে ওনাদের খাবারে আমরা ভাগ বসাচ্ছি।

জুন আপার পোস্টে আপনার ফোড়ন দেয়ার পদ্ধতি দেখেছি, কাল ডিম শেষ হলে পরশু ট্রাই করবো। তেল কিন্তু দিতে পারবো না। /:)

৭| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০৬

ইসিয়াক বলেছেন: বন্ধু এখন কলকাতায়

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৫

মা.হাসান বলেছেন: এখানেও হিরোর পোজ, ওখানেও তাই। আফসোস পাশে হিরোইন দেখছি না। :P

৮| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:০৮

ইসিয়াক বলেছেন:


বেশী বেশী পেয়ারা খান
পেঁয়াজের উপর চাপ কমান ।

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৭

মা.হাসান বলেছেন: এই কথা লিখে উন্নয়নের বিলবোর্ডে লটকায়ে দেওন দরকার।
দেশে এত উন্নতি, পাব্লিক টাকায় দাম দ্যাখে কেন? ডলারে জিগাইলেই তো পারে।

৯| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:১১

গিয়াস উদ্দিন লিটন বলেছেন: পেয়াজের কেজি ১৫০ টাকা; বলা হল, পেয়াজের বাজার নিয়ন্ত্রনে এসেছে। এর পরেই পেজের দর লাফিয়ে ২২০ টাকায় উঠেছে ।

কিরপিনের পেয়ারা রেসিপির কথা বলে অল্পের জন্য গিন্নির মাইর খাইনি ! :P

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৩৩

মা.হাসান বলেছেন: লিটন ভাই, বাজার তো নিয়ন্ত্রনেই, কিছু দুষ্টু লোকেরা ১২০ টাকা কেজির সময়ে হই হল্লা করতেছিলো, পিয়াজ ডাবল সেঞ্চুরির পর হল্লাবাজেরা এখন বাজারের বাইরে। সব নিয়ন্ত্রনে।

আমার মতো সকাল সন্ধ্যা মার খাওয়া লোকেরা আপনাকে হিংসাই করে গেলাম । |-)

**আপনি তো অনেক খবর রাখেন, রোহিঙ্গাদের মতো পিয়াজের পিছনেও ঐ সব ষড়যন্ত্রকারীদের হাত নাই তো?

১০| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৭

ইসিয়াক বলেছেন: পেঁয়াজ নিয়ে একটা কবিতা লিখছিলাম ......
ব্লগে এত পেঁয়াজ দেখে মনটা পেঁয়াজু খেতে চাইলো।
ভাবছি পোষ্ট দেব না পেঁয়াজের যে দাম কবিতা দিয়ে পেঁয়াজু বানিয়ে খাব ।হুহ
হিংসুটে গদ্য প্রেমিরা একটু রিলিফ পাক কি কন ?
জয় মন্ত্রীমশাইয়ের জয় !!
জয় পেয়াজের জয় !!

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৩৬

মা.হাসান বলেছেন: অতি দ্রুত পোস্ট করে দেন। আজ ব্লগে পিঁয়াজ দিবস পালন হয়ে যাক। B-)

ঢাকার রাস্তায় বেগুনের বদলে কাগজ দিয়ে ভাজা বেগুনি দেখেছি, আজ কি বোর্ডে ভাজা পিয়াজু দেখেই চোখ জুড়াক। নজর লেগে ইয়ে মানে ডায়রেক্ট না হয়ে গেলেই হলো।

১১| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৩০

ইসিয়াক বলেছেন: লেখক বলেছেন: এখানেও হিরোর পোজ, ওখানেও তাই। আফসোস পাশে হিরোইন দেখছি না।

ভাবী আছে । পাশে আছে ......।।
ছবি পাবলিকলি পোষ্ট করে মার খাবো নাকি !!!! :) :)

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৩৮

মা.হাসান বলেছেন: কেউ মার দিতে আসলে পেঁয়াজ --নিদেন পক্ষে পেঁয়াজের খোসা ধরায়ে দেবেন, মার আলিঙ্গনে বদলে যাবে। :#)

১২| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:৩৪

ইসিয়াক বলেছেন: রাজীব নুর এখন কলকাতায় ।





১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:৫৪

মা.হাসান বলেছেন: অনেক ধন্যবাদ প্রিয় ইসতিয়াক ভাই। রাজীব ভাইয়ের চেহারা দেখে মনে হচ্ছে না কিন্তু যে উনি কয়েকদিন ব্লগে পোস্ট দিতে না পেরে খুব খারাপ আছেন।
অনেক শুভ কামনা।

১৩| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:১২

ইসিয়াক বলেছেন: হাসান ভাই আপনার ডিম ভাজিটা দেখতে একদম ভালো হয়নি ।
আর পেয়ারা ! দেখে শুনে বাসি পেয়ারা কিনেছেন ?

বিঃদ্রঃ আমি এর থেকে আরো ভালো ডিম ভাজতে পারি । হেভী কালারফুল।
যেমন দেখতে তেমন খেতে।সত্যি বলছি হেভী টেষ্ট মাইরি। নেমন্তন্ন রইলো।

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৩১

মা.হাসান বলেছেন: পেয়ারা গত মঙ্গলবার কেন, এজন্য একটু দাগ দেখা যায়, ভিতরে কিন্তু ভালো। ড্রপারে দুফোটা তেল তুলে তাতে ডিম ভাজলে কি এর বিরানীর মতো রং হয় রে ভাই! :( আর দেখতে ভালো হলে হয়তো সরকার আবার এর উপর ট্যাকসো বসাবে। হে হে হে।

যশোরে আসলে অবশ্যি আপনার ওখানে ডিম খেতে যাবো। ছবি তুলে আনবো, ব্লগে পোস্ট দেব।

সে পরে হবে, কিন্তু এখন পিয়াজু গেল কই? নাকি কাল সকালে দেবেন?

১৪| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৪২

শিখা রহমান বলেছেন: পেয়ারা দিয়ে তো ডিমভাজি খাইনি কোনদিন!! ট্রাই করে দেখতে হবে একবার।
ডিম আর পেয়ারা দুটোই প্রিয়। দেখি আপনার রেসিপি মোতাবেক দুই প্রিয়কে এক করে কেমন হয় খেতে।

পোস্ট ভালো লেগেছে। শুভকামনা প্রিয় ব্লগার।

১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৫৯

মা.হাসান বলেছেন: সব গুলা ট্রাই করে দেখবেন প্লিজ--- পেয়ারা, তুলসি পাতা, ধনে পাতা, পার্সলে পাতা, ডিল; ডিমের বদলে ভাতের মাড় আর বেসন। ছুটিতে যখন দেশে আসবেন, কাজে লাগবে B-)
তেল বেশি দিলে কিন্তু কিরপিন রেসিপি থাকবে না।

ট্রাই করে রেজাল্ট জানাবেন প্লিজ।

পোস্ট ভালো লেগেছে শুনে আনন্দিত। অনেক শুভ কামনা।

১৫| ১৪ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৪২

নীল আকাশ বলেছেন: মাইরি বলছি, আপনাকে ভালো করে না চিনলে ভাবতাম কলিকাতার কোন দাদাবাবু পোস্ট দিয়েছে। কিরপিনের সৎকার!

আপনারা দেশের আসলেও ভালো নাগরিক না। কোথায় দেশ তড়তড় করে এগিয়ে যাচ্ছে আর আপনারা সামান্য এক পিয়াজ নিয়ে আছেন। এতই যখন সমস্যা পিয়াজ রসুন ছেড়ে দাদা দের মতো হয়ে যান। এই সরকারের কাজ তাহলে আরও কমে যাবে। ভিশন ৪১ থেকে আরও নীচেই নেমে আসবে।

আরেকটা কথা পিয়াজের জায়গায় দূর্বা ঘাস ব্যবহার করলে কেমন হ্য? দেহে ক্লোরাফিলের চাহিদাও পূরণ হয়ে গেল!

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:০৮

মা.হাসান বলেছেন: ধুর, কলিকাতার বাবুরা ডিম ভাজায় কুড়িটাকা কিলোর পেয়াজের বদলে চল্লিশ টাকা কিলোর পেয়ারা দিবো কেল্যায়?

সোহানী আপা আপনের আগেই ঘাসের পেটেন্ট লইয়া ফালাইলো। আপনেরা দুজন মন্ত্রীদের খাবার লইয়া টানাটানি করেন ক্যান?

আর আমিতো উন্নয়নের স্বপক্ষের লোক। শুধু আমি ক্যান, অহন পিয়াইজও 'জয় সরকার' কয়। আমিতো কয়াই দিছি--যাগোর খাবলা খাবলা পিয়াজ দরকার হ্যারা পাকিস্তান যাউক গা। উন্নয়ন দেইখা আমাগো পেট ভইরা যায়।

১৬| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:১৮

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: প্রিয় মা.হাসান ভাই,

পোস্ট এক রকম হইছে, তবে ডিমের রেসিপিটা সুপার্ভ লাগলো। বিগত কিছুদিন ধরে শুনছি সরকার নাকি আমাদের টাকা পয়সা দেবে না। খুব মুষড়ে পড়েছিলাম।কিন্তু আপনার রেসিপিটি পড়ে এখন এ দেহে প্রাণ পেলাম। আপনার ডিমের উপর যদি একটা ডিম- রেস্টুরেন্ট করি তাহলে দু'বেলা দু'মুঠো ভাতের জোগাড় হবে। আগে আমাদের মত হাভাতেরা রাস্তার মোড়ে পেঁয়াজ ভেজে জীবিকা নির্বাহ করত। কিন্তু এখন দেশের রাজনীতিবিদরা যদি পেঁয়াজি ভাঁজেন তাহলে আমরা আর যাই কোথায়? তবে আপনার রেসিপি এমনি এমনি নেব না। রীতিমতো পেটেন্ট দেবো।
আমাদের শ্লোগান হোক,
"দুর্নীতিগ্রস্ত পেঁয়াজ মুক্ত দেশ গড়তে আমরা সবাই হাত মেলায়।

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:২৭

মা.হাসান বলেছেন: ভারত এবং বাংলাদেশ- উভয় দেশের সরকার দীর্ঘজীবি--থুক্কু চিরজীবি হোক। ডিমের ওমলেটের সাথে খাটি আম্মা গরুর সোনা ভরা দুধের চা!
তবে ভারতে ব্যবসা করে সুখ একটু কম। পশ্চিম বাংলায় এন আর সি হয়ে গেলে আপনি বাংলাদেশে চলে আসতে পারেন। এখন ইউরোপ-আমেরিকা অনেক জায়গা থেকেই লোকে আসতে চাইছে। আগে আসলেই ভালো।
জয় ডিম ভাজা।

১৭| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১:৪৭

শেহজাদী১৯ বলেছেন: ডিম পেয়ারা ভালো রেসিপি হবে। বেসন আর হলুদ গুলেও ডিম বানানো আরও ভালো ক্রিয়েটিভ আইডিয়া।

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:০৬

মা.হাসান বলেছেন: জি, বেসন-মাড়ে হলুদ বা ফুড কালার যোগ করলে আসলেই ভালো হবে।
অনেক ধন্যবাদ।

১৮| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৭:৩১

বলেছেন: হা হা হা-- রাতের বিনোদন....
মধ্য রাতে ফাটিয়ে হাসি --

টিপুর অবস্থা শুনে বেসামাল।।।।

বৌদি দীর্ঘজীবী হোন।।

পেঁয়াজুহীন অভিনন্দন রইলো।।।।

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:১০

মা.হাসান বলেছেন: ল ভাই, বড়ই আফসোস, আপনার রাতের বিনোদন শুধু এই ব্লগ :P । একবার ঢাকায় আসুন, ক্যাসিনো সহ আরো বিবিধ বিনোদনের ব্যবস্থা করা হবে, সোহো ঢাকার কাছে কিছুই না।
বৌদি দীর্ঘজীবী হোন, সরকার চিরজীবি হউক।

১৯| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৭:৪২

বলেছেন: আপনি বিভিন্ন কবির কবিতায় লাইক কমেন্ট করেন -আবার বলেন কবিতা বিদ্বেষী --
কথা হলো,
আপনি কি লুকিয়ে লুকিয়ে কবিতা লিখেন???

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:১৯

মা.হাসান বলেছেন: ল ভাই স্বভাব যায় না মলে। না পড়ে লাইক দেয়ার স্বভাব আমার পুরাতন। আগে তাও ছবি দেখে বা পোস্টের নাম পড়ে লাইক দিতাম, কিন্তু গত কয়েক দিন ব্লগ অভিভাবকহীন ( |-) ) থাকায় আমার বেপরোয়া ভাব আরো বেড়ে গেছে, এখন র‌্যান্ডমলি লাইক দিচ্ছি ।

থাই ভ্রমন সিরিজ শেষ হলে আরোগ্য ভাই এর জন্য একটা লেখা দেব। এর পর কয়েকটা রিভিউ লেখার ইচ্ছে আছে। এসব শেষ হলে কবিদের মুখোষ উম্মোচন করা হবে (আমার বে পরোয়া লাইক দেয়ার কারণে মডারেটর যদি এর আগেই আমাকে ব্লক করে তবে আলাদা, তবে তিনি কবিতা দ্বারা আমার চেয়ে বেশি অত্যাচারিত, কাজেই আমাকে একটু সুযোগ দেবেন আশা করি)। আপনি কবিতা লেখা ত্যাগ করায় ধন্যবাদ, নচেত আপনিও কিন্তুু ঝুঁকির মাঝে ছিলেন। কবিদের অত্যাচার মুখ বুজে সহ্য করার দিন শেষ। পাবলিক চিরকাল এসব সহ্য করবে না।

২০| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৭:৪২

ঢাবিয়ান বলেছেন: এই রেসিপি ভাইরাল না হলেই বাঁচি। গরীবের ভিটামিন পেয়ারাও শেষে মজুত করা শুরু হয়ে যাবে।

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৩৬

মা.হাসান বলেছেন: পেয়ারা শেষ হলে মূলো খাবো, মূলো শেষ হলে তুলসি পাতা, ঘাস, বেসন, মাড়। সব শেষ হলে হাওয়া খাবো।
জয় সরকার।

**ভাগ্যিস দেশ স্বাধীন হয়েছিলো, তাই তো এত খাবার কথা বলতে পারছি। দেশ স্বাধীন না হলে তো খাবার কথা বললেও পুলিশ ধরে নিয়ে যেত। বলেন 'জয় সরকার'।

২১| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ৮:৩৭

ডঃ এম এ আলী বলেছেন: চমৎকার লেখা ও ছবি সমৃদ্ধ পোষ্ট । সময় নিয়ে পরে আবার আসব ।

হেনা ভাই এর পোষ্টে আপনার কমেন্টের সাথে স্পীচ টু টেক্সট সম্পর্কে মুল্যবান তথ্য পেয়ে আমার খুবই উপকার হয়েছে ।
সেখানে দেয়া আপনার লিংক নিয়ে গিয়ে আমার কম্পিউটারে বেশ সফলভাবেই প্রয়োগ করেছি । অনুশীলন পর্যায়ে সেখানে যা লিখেছি তা এখানে তুলে দিলাম ।

@ মা.হাসান
আসসালামু আলাইকুম, খুব খুশি হলাম এটা পেয়ে । বিষয়টি জানানোর জন্য অনেক ধন্যবাদ । আশা করি এটা অনেকের উপকারে আসবে । আমি এখনো ভাল করে এটা এক্সসারসাইজ করেনি। ঠেকে গেলে আপনার স্মরনাপন্য হব । কৃতজ্ঞতা জানবেন । কপি করে এনে এখানে দাড়ি কমা ও সামান্য কিছু এডিট করেছি ।


অনেক অনেক শুভেচ্ছা রইল

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৪০

মা.হাসান বলেছেন: ডঃ এম এ আলী ভাই, -- ওয়া আলাইকুম আস সালাম। আপনি কষ্ট করে এখানে এসে মন্তব্য করেছেন, অনেক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা। ঐ মন্তব্য সামান্য উপকারে লাগলেও আমি আনন্দিত হবো। লেখার কাজটা সহজ হলে আপনার মতো গুনি লোকদের কাছ থেকে আমরা বেশি পোস্ট পাবো, আখেরে আমাদেরই লাভ। অনেক শুভ কামনা।

২২| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ সকাল ১০:৩১

জুন বলেছেন: আপনার ডিম ভাজার রেসিপিটি আজ কাজে লাগবে মা হাসান ;)
এমনিতে জ্বর জ্বর ভাব তাতে পেয়াজহীন কিচেন /:)
আপনার আবিস্কৃত পেয়ারা দিয়ে ডিম ভাজি অমলেটের জগতে এক বিশাল সাথে ব্যাতিক্রমী অবদান রাখবে মনে হচ্ছে। যারা এখনো পিয়াজের পায়ে মাথা কুটে মরছে তাদের সবাইকে আপনার পোস্টে সাদর আমন্ত্রণ জানাই =p~
+

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৪৪

মা.হাসান বলেছেন: জ্বর জ্বর লাগলে তুলসি পাতা অ্যাড করে দিয়েন।
আপনার দুজন মানুষ, একটা ডিমে আশা করি দুবেলা চলে যাবে B-))
বেশি না খাওয়াই ভালো।

জ্বর জ্বর লাগছে বলে মনটা একটু খারাপ করে দিলেন। সকলে ভালো থাকুক, সু্স্থ থাকুক।

২৩| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:২৭

রাজীব নুর বলেছেন: ভারতেও দেখলাম পেঁয়াজের অনেক দাম।
কোলকাতায় এক দোকানে কাবাব খেতে গিয়ে দেখি, চিকুন চিকুন করে মূলা কেটে দিচ্ছে পেঁয়াজের বদলে।

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৪৭

মা.হাসান বলেছেন: হিরোর ছবি চমৎকার এসেছে। আশা করি কোলকাতার মেয়েরা তেমন বিরক্ত করে নি বা করলেও সুরভী আপা সামলে নিয়েছে :P । দুজনের ছবি সহ লেখা দেয়ার অনুরোধ থাকলো।

পেয়াজের দাম ভারতে বেশি বললে তো আমরা মানবো না, বাজারে গুজব- আপনি দুই স্যুটকেস ভর্তি পিয়াজ নিয়ে এসেছেন B-)) । শীগগিরই আপনার বাসায় আসছি, পিয়াজু খেতে।

২৪| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:৪৫

কিরমানী লিটন বলেছেন: ভাই মনে রাখবেন সামনে বিলাতে নির্বাচন। আত্নীয়ের নির্বাচনী ফান্ড গঠনে এই লরিলুটের আয়োজন। এই তালিকা আরও দীর্ঘতর হবে। জনগন জাহান্নামে গেলেও সেদিকে তাদের নজর নেই। তারা শুধু খুন গুম আর লুটপাটে আকন্ঠ নিমজ্জিত......

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:৫৪

মা.হাসান বলেছেন: লিটন ভাই, পিয়াজু খান, মনে ফুর্তি আনেন, বলেন-জয় সরকার।

২৫| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:৩৫

আরোগ্য বলেছেন: ধুর মিয়া আপনার এই পেয়ারাওয়ালাা অমলেটের কথা বাসায় বললে বলবে পিঁয়াজেেের শোকে মাথা পুরা গেসে। কেকা ফেরদৌসীর মত নুডলস কুচি দেননি তার জন্য শুকুর। আজকে নানু বলে, করল্লা ভাজি করলে পেয়াজ একটু বেশি লাগে। আমি বলি বিশবটাকার করল্লা খাইতে দুইশ টাকার পেয়াজ বেশি দিতে হইবো তার চেয়ে বরং করল্লা না খাইলেই হয়।
আমার মতে আড়ংয়ে পিঁয়াজের শো রুম রাখা উচিত।

ভাগ্যিস রোজার দিন না। ইফতারে কি খাইতাম। |-)

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৪৪

মা.হাসান বলেছেন: বিড়াল বাদ দিলেও তো বাড়িতে কম করে হলেও পাঁচ জন লোক, কুড়ি টাকার করলা কি সাজায়ে রাখার জন্য জন্য? নাকি শেভিং ব্লেড দিয়ে স্লাইস করে তার পর রান্না?

রোজার মাসে বাতাস খাইবাম আর জয়... জয়... জিকির করতাম।

২৬| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:৪১

আরোগ্য বলেছেন: সকল অবিবাহিত পাত্র পাত্রীর জন্য বিশেষ অনুরোধ। যদি কোন পাত্র বা পাত্রীর বাবার পিয়াজের আড়ৎ থাকে ডান বাম না দেখেই বিয়ের প্রস্তাবে রাজি হয়ে যান। দিন তারিখ ঠিক করার দরকার নেই সম্বন্ধ পাওয়ায় সাথে সাথেই পালিয়ে বিয়ে করে ফেলুন নতুবা পরে আফসোস করবেন।

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:৪৭

মা.হাসান বলেছেন: পিয়াজের আড়ৎদারের মাইয়ার লগে প্রেম করতে আছেন সেইটা বুজলাম, কিন্তু এত মাইক দিয়া কওনের কি দরকার? পলাইয়া বিয়া করেন আর যেমতেই করেন, দাওয়াত য্যান পাই কইলাম।

২৭| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৫১

আহমেদ জী এস বলেছেন: মা.হাসান ,




বুঝেছি, একা একা থাকার মস্তিষ্ক। শয়তানের কারখানায় বানানো আপনার মতো এমন আজাইররা রেসিপি আমারও আছে একখানা। দেখে , শুনে, বুঝে বানিয়ে খেয়ে নেবেন---- :-P “শরবতে শাহী” নয় “শরবতে ছহি”য়ের রেসিপি

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:০৭

মা.হাসান বলেছেন:

এখন কিন্তু পাবলিকের চিন্তার অনেক পরিবর্তন হয়েছে। পাবলিক ভালো কথা শোনে। একাধিক জন বলছেন তাঁরা রেসিপি ট্রাই করবেন।

একা একা থাকলেও কিন্তু আমি নিয়মিত 'জয় সরকার জয় সরকার' তসবিহ জপি। কাজেই আমার মাথায় খারাপ চিন্তা আসে না B-))

২৮| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ৮:৫৫

বিদ্রোহী ভৃগু বলেছেন: হা হা হা

জয়তু বৌদি!
মাছটাও অকৃতজ্ঞ নয়!

খালি বাঙালী বুজলো না! ঋণ শোধিতে দিনে দিনে কত জমেছে দেনা
তবু ঋণ শোধ হলোনা!
ট্রানিজট, জল, ব্যবসা বানিজ্য, ইলিশ, চাকুরী, ব্যবসা, সুন্দরবনধ্বংসী কয়লা প্রকল্প, না না কিছূতেই হয়নি
এবার পেয়াজের ঝাজে যদি কিছুটা হয় ;)

মাৎসানায় সময়ে স্ব-দেশ
হে প্রভু তুমি উদ্ধার করো!

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:১৩

মা.হাসান বলেছেন: মাছটাও অকৃতজ্ঞ নয়!

মাছ কি আর পেঁয়াজ রসুন খায় যে অকৃতজ্ঞ হবে?

আমাদেরও কৃতজ্ঞতা বোধ থাকা দরকার। এসব পাকিস্তানি খাবার ছাড়তে হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যদি ছাড়তে পারেন আমরা কেন পারবো না?

যা হোক, আপনার মাধ্যমে আমি প্রস্তাব রাখছি - পেঁয়াজের বানান বদলে পেঝাজ রাখা হোক।

২৯| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:১১

করুণাধারা বলেছেন: রেসিপি ভাল। বেসনের ডিম ভাজি আইডিয়াটা পছন্দ হয়েছে। শিক্ষামূলক গল্পটাও দারুন, তবে সবচেয়ে ভালো লেগেছে রাজীব নুরের রাজার মতো শুয়ে থাকা ছবিটা! এই পোস্টের শুরুতে দেওয়া মুকুটটা মাথায় বসিয়ে দিতে পারলেই পুরোপুরি রাজা!!

দারুন পোস্ট, লাইক।

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৩৩

মা.হাসান বলেছেন: হিরো রাজীব ভাই দুই স্যুটকেস পিঁয়াজ কোলকাতা থেকে নিয়ে আসছে। আশা করি ব্লগের সবাইকে দাওয়াত দিয়ে অন্তত একটা করে হলেও পিঁয়াজ হাতে ধরায়ে দিবে। ইন্ডিয়ান পিঁয়াজের সাইজ বড় । একটা দিয়ে আমার সাত দিন চলে যাবে।
বিলাতের রাজ মুকুট কেউ লক্ষ্য করলো না |-) , খালি আপনিই করলেন , অনেক ধন্যবাদ।

বেসনের ব্যাপারে চিন্তায় আছি । গতবার কুড়ি টাকা দিয়ে ২০০ গ্রাম কিনেছি। আমার বাসার সামনে ওএমএসে ট্রাক থেকে চাল-আটা এসব বিক্রি হয়। রোজার মাসে মুসুর ডাল ও কিনেছি। প্রাক্তন খাদ্য মন্ত্রী কামরুল সাহেবের আমদানি করা ভিটামিন যুক্ত গমের আটা ওনারা এখনো বিক্রি করে শেষ করতে পারে নি। ভাবছি ওখান থেকে আটা কিনবো নাকি, শেষ বার ১৮ টাকা কেজি দেখেছি। ১৭ নম্বর মন্তব্যে শেহজাদী যেমন বলেছেন, একটু হলুদ দিলেই ডিমের কালার চলে আসবে।

লাইকের জন্য ধন্যবাদ। কিন্তু পারমানবিক গল্প কোথায়? :|

৩০| ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:১৭

আরোগ্য বলেছেন: পিয়াজের যে ঊর্ধ্বগতি তাতে আর কাউকে দাওয়াত খাওয়ায়ে কুলান যাইবে না। মোহরানায় পিঁয়াজের কেজি নাকি আবার নির্ধারণ করতে হয়, তাহাই ভাবনার বিষয়। /:)

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১১:৪১

মা.হাসান বলেছেন: আগের বারের মতো অস্বীকার করেন নাই সত্য কবুল করলেন, দেইখা ভালো লাগলো। সত্যিকারের প্রেম নাকি পুরুষ মানুষকে সাহসী করে তোলে , আপনার সত্য প্রেমের জয় হউক (জিন্দাবাদ বলিবেন না)। তবে সাহস নিজের ইয়ের কাছে দেখাইতে যাইবেন না, হাসপাতাল গমন করিতে হইতে পারে।
খাওয়ার ব্যাপারটা কিরপিন স্টাইলেই চালায়া দিয়েন। মোহরানার বিষয়ে দুশ্চিন্তা করিবেন না, এক বোতল চেতনা ধরাইয়া দিব। উহা অমুল্য।

৩১| ১৬ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:০১

মুবিন খান বলেছেন: আপনি তো ভাই কেকা ফেরদৌসীর কাছাকাছি পর্যায়ের প্রতিভা। আমার প্রাণঢালা অভিনন্দন আপনার জন্যে।

আজকের পত্রিকায় এসেছে ব্যবসায়ীরা এবার চালের দাম বাড়িয়ে দিয়েছে। এখন চাল ছাড়া রান্না ও খাওয়া দাওয়া নির্বিঘ্নে চালিয়ে যাওয়ার কোনও রেসিপি কি আপনার কাছে আছে ভাই?

১৬ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৪:৪৮

মা.হাসান বলেছেন: আফসোস প্রতিভা ঘরের লোক চিনলো না। |-)

আপনি স্বীকৃতি দিলেন, সান্তনা পুরষ্কার পেলাম।

পৈতৃক সূত্রে কিছু আবাদি জমির মালিক হওয়ায় চাল কেনা লাগে না। তবে বাংলাদেশের লাখ লাখ পরিবারের চিত্র অন্য রকম। নেতাদের কেউ কেউ হয়তো ফরাসি রানীর মতো বলবেন পোলাও-বিরিয়ানি বা বার্গার-পিজ্জা খেতে।
অতীতে আলু খেয়ে ভাতের উপর চাপ কমানোর কথা বলা হয়েছে। এটা ভালো বিকল্প না। আলুর দাম চালের প্রায় অর্ধেক হলেও আলুতে পানির পরিমান বেশি। পশ্চিমা দেশে আলুর পাউডার পাওয়া যায়, একটু পানি মেশালেই ভর্তা তৈরি। কমদামে পেলে এটা ভালো। পশ্চিমা দেশে ওট পাওয়া যায়, চালের চেয়ে শস্তা, এটা আমদানি করা যায়। ফাইবার আছে বলে শরীরের জন্যও ভালো। গমের দাম চালের প্রায় কাছাকাছি, পোষাবে না। কিরপিনের হিসাবে ভুট্টা খাওয়া যায়। ময়মনসিংহ অঞ্চলে মিলেট বা বজরার চাষ এক সময়ে হতে দেখেছি মনে হয়। স্বাস্থকর। শাপলার বীজ বা শালুক খাওয়া যায়। কিরপিনের মতে খাদ্যে ডাইভারসিটি থাকা ভালো, একটার দাম বাড়লে আরেকটাতে সুইচ করা সহজ। কচুরি পানার পাতায় পানি বাদ দিলে প্রায় ৫০% প্রোটিন, ১৬% ফ্যাট, ৩০% কার্ব আছে। সরকার চাইলে আমাদের কচুরি পানা খাওয়াতে পারে।

অনেকে দেখলাম উন্নয়ন খাবার কথা বলেছেন। আমার মতে এটা ২০৪১এর পরে করলে ভালো হয়, এখনোতো উন্নয়ন শেষ হয় নি। আরেকটা বিকল্প আছে। শেষ যুগে দরবেশরা জিকির করবে, জিকিরের দ্বারাই তাদের ক্ষুধা তৃষ্ণা দূর হবে। আমি নিয়মিত জয় ... জিকির করি, শেষ জামানার মতো না খেয়ে হয়তো থাকতে পারি না, তবে কম খেয়ে চলে যায় B-))

আপনার পছন্দ মতো বিকল্প বেছে নিন, বা নতুন কিছু অ্যাড করুন। কি করলেন, পোস্ট দিয়ে জানালে আমরাও অনুপ্রানিত হই।

৩২| ১৭ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:২২

কাজী ফাতেমা ছবি বলেছেন: মাইগো মাই ইতা কিতা রেসিপি দিলেন বাই
এখন্নি বানাইতে মন চায় হাহাহাহহাহা

পেয়াজ এক কেজিতে এখন গড়াইয়াগাড়াইয়া তিন দিন যায়। দেবরের বউ কম দিয়া পারে আমি পারি না। :(

১৭ ই নভেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৫:২৪

মা.হাসান বলেছেন: বাংলাদেশ ব্যাংকে টাকার অভাব নাই, ভল্ট খুললেই খালি ডলার-পাউন্ড-টাকা, আপনি যদি এক কেজি পিঁয়াজে তিন দিন না চালায়ে তিন কেজি পিঁয়াজে এক বেলা চালান তাইলে সমস্যা কি? তয় আমরা জানি যে আপনে রান্না বান্না করেন না, খালি খাবারের ফটু তুলেন, কাজেই এত গুল ছাড়নের দরকার আছিলো না B-))

তামীমের বাকি পরীক্ষা গুলান প্রথমটার চাইতেও বেশি ভালো হউক এই কামনা করি।

৩৩| ১৭ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:০৯

ভুয়া মফিজ বলেছেন: কিরপিনের রেসিপি ট্রাই করা আমার জন্য একটু কষ্টকর। কারন, এখানে পেয়াজের দাম গত দেড়যুগেও খুব একটা হেরফের হয় নাই। আর পেয়ারা যোগাড় করা খুবই কষ্টসাধ্য। তাছাড়া, আমি তো কিরপিন না, এই ডিমভাজা খাওয়ার প্রশ্নই ওঠে না। :P

প্রচুর পেয়াজ দিয়ে চচ্চড়ি জাতীয় রান্না আমার খুবই প্রিয়। কপাল ভালো, সেটা চালিয়ে যেতে পারছি.....এতেই আমি খুশী! B-)

পেয়াজের পরের যে ভোগ্যপন্য নিয়ে সিন্ডিকেটবাজী হবে, সেটার প্রস্তুতি এখনই নেয়া শুরু করতে পারেন।

জয় বাংলা.......জয় পেয়াজ (আপাততঃ)।

১৭ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:৪৩

মা.হাসান বলেছেন:
প্রচুর পেয়াজ দিয়ে চচ্চড়ি জাতীয় রান্না আমার খুবই প্রিয়।
দামে সুলভ হলেই যে গাদা গাদা খেতে হবে এটা ভুয়া কথা । ঢাকায় মাঝে মাঝে কাঁচা মরিচ তিরিশ টাকা কেজিও পাওয়া যায়। তখন কি শুধু মরিচ খাবো?

আমাদের ভ্যাকসিন হিরো পিঁয়াজ খান না , ওনার অনুসরণে আমিও পিঁয়াজ খাবো না। যাকে অনুসরণ করবেন, হাশরের মাঠে তার সাথে থাকতে পারবেন । কিরপিন গিরি করতে করতে নিজের আমলের খাতা নেগেটিভ ব্যালন্সে ভরা। পূন্যাত্মাদের সাথে থাকলে যদি কিছু ছাড় পাই।

পেয়াজের পরের যে ভোগ্যপন্য নিয়ে সিন্ডিকেটবাজী হবে, সেটার প্রস্তুতি এখনই নেয়া শুরু করতে পারেন।



চক্রান্তকারিরা একের পর এক ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছে। ২০৪১ পর্যন্ত একটু ধৈর্য ধরেন, এর মধ্যেই ষড়যন্ত্রকারিদের বিষদাত ফেলে দেয়া হবে।


৩৪| ১৮ ই নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১:৪৮

ওমেরা বলেছেন: আসেন আমরা এখটা সন্ধি করি, আপনি আমাকে পেয়ারা পাঠান কিছু, আমি আপনাকে কিছু পিয়াজ পাঠিয়ে দিব ।

তবু এমন রেসিপি দিয়ে পিয়ারার মান নষ্ট করিয়েন না ।

১৯ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:১৫

মা.হাসান বলেছেন: আপু, আপনারা মাসে দশ কেজি পেঁয়াজ খরচ করেন পড়ে আমার প্রেসার বেড়ে গেছে। আপাতত উপোস দিয়ে প্রেসার নামাচ্ছি।

মাননীয় প্রধান মন্ত্রী পেঁয়াজ খাওয়া বাদ দিয়েছেন, আমারও তাই পেঁয়াজ বাদ। কাজেই আপনার পেঁয়াজ পাঠানোর দরকার নেই।

ঢাকা থেকে সুইডেনে পেঁয়ারা পাঠানো মুশকিল হবে (জিনিস পাঠানোর কাজে ভুয়া মফিজ ভাই ওস্তাদ, আমার অভিজ্ঞতা কম)। তবে আপনারা যদি সবাই মিলে আন্দোলন করেন তবে স্টিফান লভিয়েন নিশ্চয়ই কার্গো বিমানে পেয়ারা আমদানি করবেন। :-B

ডিমে ফাইবার একে বারেই থাকে না, পেয়ারা দিলে কিছু ফাইবার অ্যাড হয় (তাপে পেয়ারার ভিটামিন থাকার কথা না)। কাজেই পেয়াজ দিয়ে ডিম ভাজা ভাল খাদ্যই হবে।

ব্লগে আসিই একটু আধটু ক্যাচাল করতে, সন্ধি করলে তো পেট ফেটে মরে যাবো! :((

অনেক শুভ কামনা।

৩৫| ১৮ ই নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:১০

মলাসইলমুইনা বলেছেন: আপনার ডিমভাজা রেসিপি সময়ের দাবিতে জিপিএ ফাইভ আর সাথে গোল্ডেন জিপিএ নিয়ে পেয়ে পাশ !
তবে এটা কিন্তু ঠিক পেঁয়াজ মন্ত্রী (মানে বাণিজ্য মন্ত্রী/ সাথে শিল্প মন্ত্রীও ) কিন্তু আমাদের ক্রিয়েটিভ করে দিয়েছে । ঢাকায় কথা হচ্ছিলো আজ সকালে ।বোনের বাসার হেলপার মেয়েটা নাকি 'এরকম এক পদ্ধতিতে ডিমভাজি করে খাইয়েছে ওদের ! নেসিসিটি ইজ দ্যা মাদার অফ ইনভেনশন -কথাটা স্কুলে স্যারেরা বেতের বাড়ির সাহায্যেও শেখাতে পারেননি কিন্তু বাণিজ্যমন্ত্রী বাণিজ্যে লেজেগোবরে করে একেবারে প্রাক্টিকালি শিখিয়ে দিচ্ছেন সবাইকে স্কুলের পড়াশোনা । এদের দুজনকে যৌথভাবে শিক্ষা মন্ত্রীর দায়িত্বও অতিরিক্ত দেওয়া হোক ।

১৯ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:২৪

মা.হাসান বলেছেন: নাইমুল ভাই, নেসেসিটি ইজ মাদার অফ ইনভেনশন-- (মাদার অফ আর কিছু হলে সমস্যা, সব মাদারের খেতাব বুকিং হয়ে গেছে)। লোকে পাতা কপি, মূলা এসব দিয়ে দোপেয়াজা, পিয়াজু করছে।

মন্ত্রীদের ব্যাপারে আর কি কব, নতুন নকিব ভাই ওনাদের নিয়োগের ব্যাপারে এক খানা পোস্ট দিয়েছেন--- নকিব ভাইয়ের পোস্ট

সুযোগ পেলে একবার দেখে নিয়েন।
আমার পোস্টে কিন্তু বিনা ডিমে ডিম ভাজির পদ্ধতিও দেয়া আছে ।
অনেক শুভকামনা।

৩৬| ১৮ ই নভেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১:৩৪

স্বপ্নবাজ সৌরভ বলেছেন: চরম বিনোদন। অনেক ভালো লাগলো পোস্ট। রেসিপি ট্রাই করবো।

১৯ শে নভেম্বর, ২০১৯ রাত ১২:২৬

মা.হাসান বলেছেন: গরিবের খানা অবশেষে আপনার বিনোদন হইলো :((

ট্রাই করিবেন, ইহা সুস্বাদু। বিফলে তেল ফেরৎ (ডিম, পেয়ারা ফেরৎযোগ্য না )।

৩৭| ০৬ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:৫৯

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: প্রিয় মা.হাসানভাই,

কোথায় গেলেন আজ অনেক দিন হয়ে গেল আপনার কোন খবরাখবর না পেয়ে আমরা খুব চিন্তিত। প্লিজ অন্তত একবার দেখা দিন।

উপরওয়ালা আপনাকে মঙ্গল করুন।

০৮ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৪৩

মা.হাসান বলেছেন: আপনার আন্তরিকতা পূর্ণ মন্তব্যের জন্য অনেক ধন্যবাদ। কর্ম এবং অপকর্ম নিয়ে ব্যস্ত আছি, এজন্য আমাকে এখানে দেখছেন না। কাল থাই ভ্রমনের পরের অংশ দেয়ার ইচ্ছে ছিলো, সময় করতে পারি নি। আগামি কাল সম্ভবত পারবো। খুবই দুঃখিত অনিয়মিত হবার জন্য। জানুয়ারীর দ্বিতীয় সপ্তাহ থেকে নিয়মিত হব আশা করি।

৩৮| ০৮ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১১

এমজেডএফ বলেছেন: কী ব্যাপার হাসান ভাই! আপনার থাইল্যান্ড ভ্রমণের পরবর্তী পর্বের সন্ধানে এসে দেখি আপনি নিজেই নিঁখোজ! যত সমস্যাই থাকুক একবার সম্ভব হলে কেমন আছেন জানিয়ে বার্তা দিয়েন। শুভকামনা রইলো।

০৮ ই ডিসেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৪৬

মা.হাসান বলেছেন: ফারুক ভাই, আমাকে খুঁজতে চলে এসেছেন আমি অভিভুত।
কিছু ব্যস্ততার কারণে অনিয়মিত হয়ে পড়েছি।
থাই ভ্রমন ৫ম পর্ব খসড়া করা হয়েছে। এডিট করা ও ছবি যোগ করা হয় নি। আশা করি কাল পোস্ট করতে পারবো।

অনেক কৃতজ্ঞতা ও শুভকামনা।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.