নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

সেলিম আনোয়ার

[email protected] Facebook-selim anwar বেঁচে থাকা দারুন একটা ব্যাপার ।কিন্তু কয়জন বেঁচে থাকে। আমি বেঁচে থাকার চেষ্টা করি।সময় মূল্যবান ।জীবন তার চেয়েও অনেক বেশী মূল্যবান।আর সম্ভাবনাময়।সুন্দর।ঢাকাবিশ্বদ্যিালয়ের পাঠ চুকিয়ে নিরস চাকুরীজীবন।সামনে আরও নিরস ভবিষ্যৎ। নিরস জীবন সরসভাবে কাটানোর প্রচেষ্টায় আমি সেলিম আনোয়ার।

সেলিম আনোয়ার › বিস্তারিত পোস্টঃ

কুরবানী নয় জীবন বাঁচাও ও একটি সাদা পাখি

০১ লা জুলাই, ২০২০ দুপুর ২:৩৭




কুরবানী নয় জীবন বাঁচাও


গরুর হাটে গেলে পরে
কোভিড নাইনটিন আসতে পারে— ঘরে ,
কুরবানির পশুর সাথে স্বপরিবারে
জীবন দেয়ার আশঙ্কা তাতে,
তাই কি আছে তার মানে?

কুরবানী করা ওয়াজিব নামাজ আদায় ফরজ
তবুও ফরজ আদায়ে নেই, সবার যেন
কুরবানীতেই গরজ।

মহান আল্লাহ দয়াপরাবশ হয়ে শিশু ইসমাইলের
প্রাণ বাঁচিয়ে ছিলেন, তার পরিবর্তে একটি পশু
কুরবানী কবুল করেছিলেন।
পরম করুণাময় বিশ্ব মানবতার
এক ছবক দিয়েছিলেন।

মানুষেরা বেঁচে থাকুক কোয়ারেন্টাইনে থেকে
কুরবানী কি এতোই দরকারি ?
মানুষের জীবন যাতে মৃত্যু আশঙ্কা তে।

এবারের পরিস্থিতি একেবারেই ভিন্ন,
মানুষের জীবন তো নয় শুধু
পশু কুরবানীর জন্য,
মানুষের জীবন হোক মানুষেরই জন্য।

বেশি পূণ্য করতে চাইলে ফরয আদায় কর,
কুরবানীর চেয়ে মানুষের জীবন বাঁচানোই বড়।

একটি সাদা পাখি

আজ রাতে লিখবো না আর বেদনার ইতিকথা
আজ রাতে ছায়াপথে রেখে চোখ
দেখবো তারা; তারার সাথে কইবো কথা।

নক্ষত্রের আগুনে ভাবনারা হোক— বাঁধনহারা
আজ আর ভাববো না তোমার কথা।

আজ কাটুক না হয় সময় আনমনে তারা গুনে
মেঘ বালিকা ভেসে যায় কার পানে— যাক
ভালোবাসা সঙ্গোপনে, এই মনে লুকিয়ে থাক।

মৃদু মন্দ হাওয়া লাগছে ভীষণ ভালো
হিমেল হাওয়ায়— গা জুড়িয়ে গেলো।

জানি আজ আর আসবে না ঘুম চোখে,
রাতজাগার অভ্যেস আমার বেশ পুরোনো
একদা শিখেছিলাম, তোমায় ভালোবেসে,
হয়তো মনে নেই তোমার, আমার মনে আছে।

রাতের তারা মেঘের আড়ালে কেন যে ডুবে যায়
মনে হলো একটি সাদা পাখি— ঐতো উড়ে যায়।



ছবি নিজস্ব অ্যালবাম


মন্তব্য ২৭ টি রেটিং +৪/-০

মন্তব্য (২৭) মন্তব্য লিখুন

১| ০১ লা জুলাই, ২০২০ দুপুর ২:৫৯

নেওয়াজ আলি বলেছেন: নামাজ কায়েম করতে চেষ্টা করি অবিরত। করোনায়ও নিজের সাধ্যমত সাহায্য করেছি। কোরবানি দিবো । চেষ্টা করবো মাংস বিলিয়ে দিতে যদি বাঁচি।

০১ লা জুলাই, ২০২০ বিকাল ৩:১৭

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: করোনা বিস্তার রোধ সর্বাগ্রে গুরুত্ব দিতে হবে। মানুষের জীবন যাতে ঝুকিতে না পরে সেদিকে নজর দিতে হবে।

২| ০১ লা জুলাই, ২০২০ বিকাল ৪:৫৭

পগলা জগাই বলেছেন: কোরবানীর বিষয়টা আমাদের কাছে আসল উদ্দেশ্য হারিয়ে ভিন্ন মাত্রায় অবস্থান করছে।
বাবা জীবিত থাকতে দেখতাম শেষ কয়েক মাস টাকা জামিয়ে রাখতেন। কোরবানী পশু কেনার টাকা জমে যেতো।
আমি এখন পর্যন্ত পারিনি। প্রতিবার টাকা ধারনেই। এবার অবস্থা আরো খারাপ। ভিষন খারাপ।

০১ লা জুলাই, ২০২০ বিকাল ৫:০৮

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: এবার অনেকের সামর্থ্য নেই । গরুর হাট গরু যাচাই করতে গিয়ে করোনা রোগ নিয়ে আসার আশংকা অমূলক নয় । তাতে নিজেই কুরবানি হয়ে যাওয়ার আশঙ্কা বিদ্যমান। এমন জীবনের ঝুকি নিয়ে ওয়াজিব আদায় আবার নামাজ পড়া বিষয়টি কেমন না। জামাতে ফরয নামায পড়া ওয়াাজিব । আর কুরবানি দেয়া সামর্থ্যবান মানুষের দেয়া ওয়াজিব ফরয নয় । এদিক দিয়ে দেশে চলছে মহামারি। ত্রাণের অপেক্ষায় আছে কত মানুষ ।

৩| ০১ লা জুলাই, ২০২০ বিকাল ৪:৫৭

পগলা জগাই বলেছেন: হাটে যাওয়াটাই সব চেয়ে বড় বিপদ।

০১ লা জুলাই, ২০২০ বিকাল ৫:০৯

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: গরুর হাট শতভাগ স্বাস্থ্য বিধি পরিপালন করতে পারবে বলে আমার বিশ্বাস হয় না।

০১ লা জুলাই, ২০২০ বিকাল ৫:১১

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: এ বিষয়ে হক্কানি আলেমদের সম্মিলিত সিদ্ধান্ত জানার খুব ইচছা আমার ।

৪| ০১ লা জুলাই, ২০২০ বিকাল ৫:৩৮

সাইন বোর্ড বলেছেন: যেখানে জীবনই বিপন্ন হওয়া জোগাড়, সেখানে কোরবানী কিনতে গিয়ে নিজে এবং অন্যদেরকে ঝুঁকির মধ্যে ফেলা ঠিক হবে না ।

০১ লা জুলাই, ২০২০ বিকাল ৫:৫০

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: আমারও তাই মনে হয় । শুধু নিজে নয় পুরো পরিবার প্রতিবেশির জীবন ঝুকিতে ফেলা কোন যুক্তিতে ।

৫| ০১ লা জুলাই, ২০২০ রাত ৮:১৯

চাঁদগাজী বলেছেন:


কোরবানীর ব্যাপারে রাষ্ট্র কোন একটা ব্যবস্হা নিলে ভালো হতো

০২ রা জুলাই, ২০২০ সকাল ৯:২৬

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: সেটাই । আমরা শুধু আমাদের ব্যক্তিগত উপলব্ধির কথা প্রকাশ করতে পারি। বাস্তবায়ন করবে রাষ্ট্রযন্ত্র ।

৬| ০১ লা জুলাই, ২০২০ রাত ৮:৫২

পদাতিক চৌধুরি বলেছেন: দুটি কবিতাই ভালো লেগেছে।
প্রথম কবিতায় সহমত আপনার সঙ্গে।জীবন বাঁচানোই অগ্রাধিকার।
দ্বিতীয় কবিতায়- আজ বড় শান্তির অভাব।বিশ্ব মানবতা বিপন্ন।এর মধ্যেও চারিদিকে যুদ্ধোন্মাদ দৈত্যের দাপাদাপি।উরুক পতপত করে এমন সাদা পায়রা। মানবতা বিকশিত হোক।পৃথিবীতে শান্তি আসুক।

০২ রা জুলাই, ২০২০ সকাল ৯:৩২

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: চমৎকার কমেন্ট।

লিখে দায়বদ্ধতা থেকে মুক্তি লাভের অনুভূতি অমূলক নয় । সিদ্ধান্ত চাপিয়ে দিতে পারবো না। কিন্তু এতটুকু বলতে পারবো আমি বলেছি । মানুষ বাচানোর চেষ্টায় এটাও বলা যায় মুসলমান বাচানোর চেষ্টায় । মুসলমান বাচলে ধর্ম বেচে থাকবে। যদি না থাকে থাকতে হবে যাদুঘরে। এটা ধর্ম বিদ্বেষি পোস্ট মানতে আমি রাজি নই ।

৭| ০১ লা জুলাই, ২০২০ রাত ৯:১৩

আহমেদ জী এস বলেছেন: সেলিম আনোয়ার,




" কুরবানী নয় জীবন বাঁচাও..." এই মূহুর্তের কঠিন বাস্তবতা।

"সাদা পাখি যাবে উড়ে
দূর থেকে বহুদূরে,
এই ছিলো তার মনে!
তাহারে যে কি কুক্ষনে
ভালোবেসেছি সঙ্গোপনে,
অশ্রুসজল আঁখিতে ধরে! "

কবিতা ভালো হয়েছে।

০২ রা জুলাই, ২০২০ সকাল ১০:০৭

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: আবারও চমৎকরা মন্তব্য। মন্তব্যে প্রীত হইলাম ।

অজ্ঞতার নেশা যাবতীয় নেশা থেকে অধিকতর ক্ষতিকর। পবিত্র কুরআন আর সুন্নাহ বিষয়ক জ্ঞান অন্বেষণ থেকে ইংরেজী শিক্ষিত মানুষের অবস্থান দূরে। ফলে যারা ধর্ম শিক্ষায় শিক্ষিত তারা নৈতিকতার স্খলনে ঢাল হিসেবে নিজের স্বার্থে ধর্মকে ব্যবহার করে মাত্র। আলিয়া মাদ্রাসার ছাত্রগণ যদি শুধু মাত্র অনুবাদকের ভূমিকায় অবতীর্ণ হোন মাসলা মাসায়েল না জানেন তখন ইংরেজী শিক্ষিত মানুষের মতই তারা অজ্ঞতার আধারে ঘুরপাক খান। আর যারা ধর্ম বিষয়ের বিখ্যাত মাওলানারা পরস্পরকে যে পরিমান নিন্দা জ্ঞাপন করে কাফের ফতুয়া দিতেও ছাড়ে না তারা একাই সব ভক্ষণ করিতে চাহেন এটাই হক কথা । আবার যিনি জানা বিষয়টা বলতে শিকড় সহ আত্নস্থ ধারস্থ করা বুঝেন তিনি ধর্ম বিষয়েও একই পদ্ধতি অবলম্বন করবেন এটাই স্বাভাবিক। এখন বেচে থাকাটা জরুরী । কথায় আছে যতক্ষণ শ্বাস ততক্ষণ আশ।

৮| ০১ লা জুলাই, ২০২০ রাত ৯:৪৪

সোহানী বলেছেন: ঠিক একই কথা আমারো। কুরবানীর নামে নৃশংশতা আমি পছন্দ করি না। এ জীবনে কখনই কুরবানী দেখেনি কারন অমন করে হত্যার উৎসব আমার ভালো লাগে না।

০২ রা জুলাই, ২০২০ সকাল ১০:৪৬

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: কুরবানি কে আমি নৃশংসতা বলি না। বর্তমান পরিস্থিতিতে মানুষের মৃত্যু আশঙ্কা যখন কুরবানির সঙ্গে সখ্যতা গড়েছে তাকে নৃশংসা বলি। আল্লাহ তায়ালা পছন্দ করেন কুরবানি। আল্লাহ তায়ালার হুকুম কুরবানি। মানুষের পশুত্ব কুরবানি করা হয় পশু কুরবানির মধ্যে দিয়ে । মানুষকে আল্লাহ সৃষ্টি করেছে আল্লাহর ইবাদতের জন্য । আর সমস্ত সৃষ্টি মানুষের সেবায় ভোগে। কিন্তু মানুষ শুকর খায় স্রষ্টার হুকুম অমান্য করে মানুষ প্রাণীকে মানুষের উপরে স্থান দেয় ।অনিয়ম করে। মানুষ সর্বশ্রেষ্ঠ্ জীব কোন সন্দেহ নেই । তেলাপোকা ভক্ষণ করার জন্য নয় আবর্জনা ভক্ষণ করা তেলাপোকার দায়িত্ব ।

৯| ০১ লা জুলাই, ২০২০ রাত ১০:১৩

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন:
এ বছর কোরবানী না করে সেই টাকায় একটি জাতীয় ফান্ড গঠন করার উদ্যোগ নিন। আমি ১০ হাজার টাকা দিব। আমাকে সুযোগ দিন।

০২ রা জুলাই, ২০২০ সকাল ১১:১২

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: এটা হতে পারে রাষ্ট্রীয় উদ্যোগে । মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে । আপনার উদারতা মুগ্ধ করার মত । এ উপলব্ধি সবার হওয়া দরকার আছে ।

১০| ০১ লা জুলাই, ২০২০ রাত ১০:১৫

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন:

সোহানী বলেছেন: ঠিক একই কথা আমারো। কুরবানীর নামে নৃশংশতা আমি পছন্দ করি না। এ জীবনে কখনই কুরবানী দেখেনি কারন অমন করে হত্যার উৎসব আমার ভালো লাগে না।

আপনার বক্তব্য আমারও মনের কথা। সহমত ১০০%।

০২ রা জুলাই, ২০২০ সকাল ১১:২০

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: দারুন কমেন্ট করে সোহানী । মনে রাখতে হবে মহান আল্লাহ তায়ালা পরম করুনাময় অশেষ দয়ালু তার চেয়ে বেশি দয়া কাহারো নেই । কারূনের ঘটনা মনে আছে নিশ্চয় । মুসা আঃ কে মিথ্যে অপবাদে অভিযুক্ত করার পর যখন স্রষ্টার আযাবে পতিত হয়ে সম্পদসহ মাটিতে ডুবে যাচিছ লেনন মুসা আঃ কাছে ক্ষমা চাইলেন ক্ষমা পাননি সম্পদসহ মাটিতে ডুবে গেলেন। আল্লাহর কাছে ক্ষমা চাইলে ক্ষমা পেতেন । আল্লাহ এতই দয়ালু ।

১১| ০২ রা জুলাই, ২০২০ রাত ১২:৫১

রাজীব নুর বলেছেন: দুর্বল রাষ্ট্র ব্যবস্থা আমাদের।

০২ রা জুলাই, ২০২০ সকাল ১১:৩০

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: দূর্বলতা দূর্নীতি প্রবণতার কারণে । অনৈতিকভাকে কোন ব্যবস্থা টেকসই হয় না ।

১২| ০২ রা জুলাই, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:৫৭

সাইদুর রহমান বলেছেন: অসাধারণ।

০৪ ঠা জুলাই, ২০২০ রাত ৮:৪৯

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: দায়বদ্ধতা থেকে লেখা। দু'জন লোক বাঁচলেও লেখা স্বার্থক । সতর্কতা অবলম্বণের বিকল্প নেই ।

১৩| ০৪ ঠা জুলাই, ২০২০ রাত ৮:১৩

সাহাদাত উদরাজী বলেছেন: কি হয় দেখা যাক, কোথায় যেয়ে ঠেকে!

১২ ই জুলাই, ২০২০ রাত ৯:৫১

সেলিম আনোয়ার বলেছেন: কমেন্টে এবং পাঠে অনেক ধন্যবাদ।নিরন্তর শুভকামনা আপনার জন্য ।

আপনার মন্তব্য লিখুনঃ

মন্তব্য করতে লগ ইন করুন

আলোচিত ব্লগ


full version

©somewhere in net ltd.