নির্বাচিত পোস্ট | লগইন | রেজিস্ট্রেশন করুন | রিফ্রেস

আমি ঘুরতে ভালোবাসি। আমি খুব নেট পাগল। আমি নবম শ্রেণী থেকে অনার্স পযর্ন্ত নানী বাড়িতে ছিলাম।

নাহল তরকারি

আমি ধার্মিক। আমি সব কিছু ধর্মগ্রন্থ অনুযায়ী বিচার বিশ্রেশণ করি। আমি সামাজিক রীতিনীতি, সমাজিক কু সংস্কার, আবেগ দিয়ে কোন কিছু বিচার করি না।

সকল পোস্টঃ

নদী বয়ে যায়।

০৯ ই জুলাই, ২০২৪ রাত ১০:০২

মঙ্গলবার, ০৯ জুলাই ২০২৪, ২৫ আষাঢ় ১৪৩১, ২ মহররম ১৪৪৬ হিজরি।

ছবিট গতকাল তুলেছি। ট্রেন থেকে তুলেছি। গুগল ম্যাপের লিংক:




ট্রেনের জানালা দিয়ে তোলা...

মন্তব্য৯ টি রেটিং+৩

ভাষা।

০৩ রা জুলাই, ২০২৪ রাত ৮:১৫




প্রাণ দিলাম বাংলা ভাষার জন্য। চাকরি হয় না ইংরেজি ভাষার জন্য। এখন কোন বাঙ্গালী আবেগের ঠেলায় এই লাইন আবিষ্কার করেছে আমি জানি না। বর্তমান যুগ বিশ্বায়ন এর যুগ। এখন...

মন্তব্য২ টি রেটিং+১

বৃষ্টি দিনের নাস্তা।

৩০ শে জুন, ২০২৪ দুপুর ১২:৪৫




আমি খুব ভোজন রসিক। আমার আলুর চপ, বেগুনী, আলুর পুরি ইত্যাদি খাবার খেতে ভালো লাগে। বিশেষ করে স্কুল ও কলেজ জীবনে আমি নিয়মিত এগুলো খেতাম। এসব খাবারের স্বাদ অতুলনীয়।...

মন্তব্য৪ টি রেটিং+২

আজ এই মেঘলা দিনে।

২৯ শে জুন, ২০২৪ রাত ৮:৪৪

শনিবার, ২৯ জুন ২০২৪, ১৫ আষাঢ় ১৪৩১, ২২ জিলহজ ১৪৪৫।


বৃষ্টি দিনের অনুভূতি:
আজকের সকালটি ছিল সম্পূর্ণ ভিন্ন। আকাশে মেঘ জমে ছিল আর বেলা বাড়ার সাথে সাথে শুরু হলো বৃষ্টি। নিচের ছবিতে...

মন্তব্য০ টি রেটিং+১

এমন পরিবেশে আমার চা খেতে মনে চায়।

২৭ শে জুন, ২০২৪ সন্ধ্যা ৭:৫০




গ্রামীণ বাংলাদেশের মনোরম পরিবেশে চায়ের আড্ডার মাধুর্য অতুলনীয়। ছবিতে দেখা যায় একটি ছোট্ট চায়ের দোকান, যেটি একটি বিশাল গাছের ছায়ায় অবস্থিত। গাছের শীতল ছায়া এবং চারপাশের সবুজ...

মন্তব্য৬ টি রেটিং+১

আবল তাবল চিন্তা।

২৫ শে জুন, ২০২৪ রাত ৯:৩২



হাঁটছিলাম গ্রামের রাস্তা দিয়ে, চারপাশে সবুজ মাঠ আর গাছপালা। হঠাৎ মনে হলো, ৫০০০ বছর আগে মিশরও হয়তো এমন সবুজ ছিল। তখন নীল নদের পাড়জুড়ে বিস্তীর্ণ সবুজ ক্ষেত্র, গম আর যবের...

মন্তব্য১ টি রেটিং+০

গ্রামেই বাড়ি বানিয়ে থাকাটা সুখের

২২ শে জুন, ২০২৪ রাত ৮:২৪



শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১, ১৫ জিলহজ ১৪৪৫ হিজরি।

গ্রামের বুকে বাড়ি বানানো মানে প্রকৃতির সঙ্গে একাত্ম হওয়া। সবুজ শ্যামলিমায় ঘেরা এই প্রকৃতির কোলে বসবাস আমাদের মনে এনে...

মন্তব্য১২ টি রেটিং+৪

নওগাঁ জেলার বরুন কান্দি গ্রামের রাস্তা ধরে হাঁটার গল্প

২১ শে জুন, ২০২৪ রাত ৮:৩৪


নওগাঁ জেলার বরুন কান্দি গ্রামের রাস্তা ধরে হাঁটার গল্প

২১শে জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৪ জিলহজ ১৪৪৫ হিজরি। আজ শুক্রবার। আমি আছি নওগাঁ জেলার বরুন কান্দি গ্রামে। এখানে এসে...

মন্তব্য১০ টি রেটিং+১

মাইক্রোফোন এর ভীতি

১৯ শে জুন, ২০২৪ রাত ৮:৪০



২০০৫ সালের কথা। আমি তখন ক্লাস ফাইভে পড়ি। তখন সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে আমি আমার নাম লেখাই। আমি একটি কৌতুক শুনাবো। যথারীতি রিয়ারসেল, অনুশীলন করতে করতে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের দিন আসলো। আমি...

মন্তব্য৩ টি রেটিং+০

কুরবানীর ঈদ।

১৮ ই জুন, ২০২৪ বিকাল ৫:০২


ফাতেমা গরিব ঘরের শিশু। বাপ রিক্সা চালায়। সারা বছর গরুর গোস্ত খাওয়ার সপ্ন দেখলেও সেই সপ্ন আর পূরন হয় না। শিশু ফাতেমার বাপের যা ইনকাম তা দিয়ে টানতে টানতে দিন...

মন্তব্য৩৭ টি রেটিং+২

এই বাড়িটি বয়ে বেড়াচ্ছে কিছু স্মৃতি।

১৪ ই জুন, ২০২৪ বিকাল ৪:০৫



ছবিটি ফেসবুক থেকে সংগ্রীহিত।

মনে করুন, সময়টি ১৯৮০ সালের। গ্রামের এক সামর্থ্যবান ব্যক্তি এই বাড়িটি নির্মাণ করেন। তিনি স্ত্রী ও সন্তানদের নিয়ে সুখে-শান্তিতে দিন কাটাচ্ছিলেন। সময়ের সাথে সাথে...

মন্তব্য২০ টি রেটিং+৬

নওগাঁ জেলার সদর উপজেলার অপরূপ প্রকৃতি

১১ ই জুন, ২০২৪ রাত ৮:০০



নওগাঁ জেলার সদর উপজেলায় অবস্থিত এই স্থানটি একটি চমৎকার প্রাকৃতিক দৃশ্যের উদাহরণ। এখানে সবুজ মাঠ, খোলা আকাশ, এবং দূরবর্তী গাছপালার সমাহার মিলে এক অনন্য প্রাকৃতিক সৌন্দর্যের সৃষ্টি করেছে। এমন পরিবেশে...

মন্তব্য০ টি রেটিং+০

কদম গাছ

১০ ই জুন, ২০২৪ রাত ৮:৪০

কদম গাছ প্রকৃতির এক অপরূপ সৃষ্টি। এর বৈজ্ঞানিক নাম Neolamarckia cadamba। এই গাছটি আমাদের দেশে বিশেষত বর্ষাকালে একটি পরিচিত দৃশ্য। কদম গাছের পাতা বড় এবং সবুজ, যা গাছটিকে...

মন্তব্য২ টি রেটিং+০

ভূতে মাছ নিয়ে গেছে: Panic Attack

০৯ ই জুন, ২০২৪ রাত ৯:০১

বেশ অনেক দিন আগের কথা, আমি তখন ক্লাস টুতে পড়ি। সালটা ২০০২। আমি পড়ালেখা করছিলাম সেই রুমে যেখানে ফ্রিজ ছিলো। আমাদের কাজের বুয়া ফ্রিজ থেকে মাছ বের করে জানালায় রাখে।...

মন্তব্য১৬ টি রেটিং+১

রেল ভ্রমন ২০২৪-জুন-০৮

০৮ ই জুন, ২০২৪ রাত ১০:২১


চিত্র: ওভার ব্রীজ থেকে কমলাপুর রেল স্টেশন এর ছবি।

ঢাকা থেকে সান্তাহার: এক রেলযাত্রার অভিজ্ঞতাঃ

গতকাল আমি একটি রেল ভ্রমণে বেরিয়েছিলাম। গন্তব্য ছিল ঢাকা থেকে সান্তাহার, বগুড়া। যাত্রার সময় ছিল...

মন্তব্য৬ টি রেটিং+২

>> ›

full version

©somewhere in net ltd.